দিল্লির তাবলিগে অংশ নেওয়াদের মধ্যে আক্রান্ত ৩৯৮

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৬:১৯, এপ্রিল ০২, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:৫৭, এপ্রিল ০২, ২০২০

দিল্লির নিজামুদ্দিন মারকাজে তাবলিগ জামাতে অংশ নেওয়া মুসল্লিদের মধ্যে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩৮৭ জনে। বুধবার এই তথ্য জানানো হয়েছে। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি এখবর জানিয়েছে।


মুসলিম ধর্মাবলম্বীদের তাবলিগ জামাতের একটি আয়োজন গত ১ মার্চ দিল্লির নিজামুদ্দিন মারকাজ মসজিদে শুরু হয়। মালয়েশিয়া, ইন্দোনেশিয়া, সৌদি আরব ও কিরগিজস্তানের প্রতিনিধিসহ প্রায় দুই হাজার মানুষ ওই আয়োজনে অংশ নেয়। ১৫ মার্চ পর্যন্ত অনুষ্ঠান চলে। অনুষ্ঠান শেষেও অনেকে সেখানে অবস্থান চালিয়ে যেতে থাকে। ২৪ মার্চ ভারতজুড়ে লকডাউন শুরুর সময়েও সেখানে প্রায় দেড় হাজার মানুষের অবস্থান ছিল।
বুধবার ভারতীয় কর্তৃপক্ষ মসজিদ থেকে তাবলিগ জামাতে অংশ নেওয়া সবাইকে সরিয়ে দেয়। ভারতে করোনাভাইরাসের বিস্তারের কেন্দ্রস্থল হিসেবে এই তাবলিগ জামাতকে বিবেচনা করা হচ্ছে। দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ১ হাজার ৯৬৫ জন। মৃত্যু হয়েছে ৫০ জনের। এর মধ্যে দিল্লির তাবলিগ জামাতে অংশ নেওয়াদের আক্রান্তের সংখ্যা ৩৯৮ জন।
তাবলিগ জামাত আয়োজকদের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়, লকডাউনের কারণে কোনও গণপরিবহন ও যাতায়াত ব্যবস্থা ছিল না। ফলে মারকাজে আটকা পড়েন তাবলিগে অংশ নেওয়া মানুষেরা। তবে অনেকেই সেখান থেকে বিভিন্ন রাজ্যে ছড়িয়ে পড়েন। কর্তৃপক্ষ তাদের শনাক্ত করার চেষ্টা করছে। তাবলিগ জামাতের প্রধান মাওলানা সাদ কাহন্দলভিসহ সাত জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে দিল্লি পুলিশ।
দিল্লির স্বাস্থ্যমন্ত্রী সত্যেন্দ্র জৈন জানান, বুধবার ৩৬ ঘণ্টার মধ্যে ২ হাজার ৩৩৫ জনকে মসজিদ থেকে সরানো হয়েছে। তাদেরকে কোয়ারেন্টিন কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে এবং যাদের লক্ষণ দেখা গেছে তাদেরকে পাঠানো হয়েছে হাসপাতালে।
আক্রান্তদের মধ্যে তামিল নাড়ুর ১৯০, অন্ধ্র প্রদেশের ৭১, দিল্লির ৫৩, তেলেঙ্গানার ২৮, আসামের ১৩, মহারাষ্ট্রের ১২, আন্দামানের ১০, জম্মু-কাশ্মিরের ৬, পুডুচেরি ও গুজরাটের ২ জন করে রয়েছেন।

/এএ/

লাইভ

টপ