বিমানবন্দরের কার পার্কে ড্রাইভ-ইন চিত্রশালা

Send
জার্নি ডেস্ক
প্রকাশিত : ১২:৪০, জুন ০৯, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৩:১৬, জুন ০৯, ২০২০

গাড়ি থেকে চিত্রকর্ম দেখার সুবিধা থাকায় আশেপাশে কোনও হট্টগোল নেইকোভিড-১৯ মহামারির কারণে অবরুদ্ধ অবস্থার (লকডাউন) মধ্যে ঘরের বাইরে দৈনন্দিন কার্যক্রম গাড়িতে বসে করতে বাধ্য হচ্ছে মানুষ। যেমন খাবার কেনা, চলচ্চিত্র উপভোগ করা (ড্রাইভ-ইন সিনেমা), এমনকি গির্জায় উপাসনা। এবার শুরু হলো ড্রাইভ-ইন চিত্রশালা। 
জার্মানির কোলন/বন বিমানবন্দরের একটি কার পার্ক হয়ে উঠেছে আর্ট গ্যালারি, যেখানে সাপ্তাহিক ছুটির দিন শিল্পীরা তাদের সৃষ্টিকর্ম তুলে ধরছেন। এক্ষেত্রে ব্যবহার হচ্ছে বিমানবন্দর থেকে দেওয়া ৩০০টি ট্রলি। বেশিরভাগ ফ্লাইট বন্ধ থাকায় কার পার্কে প্রচুর ফাঁকা জায়গা আছে।
বেশিরভাগ ফ্লাইট বন্ধ থাকায় কার পার্কে প্রচুর ফাঁকা জায়গা আছেড্রাইভ-ইন চিত্রশালার আয়োজক শিল্পী ডিটার নসবম জানান, করোনাভাইরাস প্রাদুর্ভাবের কারণে জার্মানিতে বড় পরিসরের ইনডোর প্রদর্শনীগুলো বাতিল হওয়ায় চিত্রশিল্পী ও ভাস্কররা হতাশ হয়ে পড়েছিলেন। এ অবস্থায় তাদের সহযোগিতার জন্য নতুন পন্থাটি বেছে নেওয়া হয়েছে।
শিল্পী ডিটার নসবম বলেন, ‘কার পার্কের ট্রলি দেখে আমাদের মনে হয়েছে এখানে ড্রাইভ-ইন চিত্রশালা হতে পারে। গাড়িতে বসে একেকটি চিত্রকর্ম দেখার জন্য যতটা দরকার তত উঁচু এসব ট্রলি। তবে বড় আকারের ছবিগুলো মেঝেতে রাখা হয়েছে। সবকিছু পরিকল্পনামাফিক করতে পেরে আমরা খুশি।’
অর্ধশত শিল্পী তুলে ধরেছেন প্রায় ৩০০ চিত্রকর্ম ও ভাস্কর্যগাড়ি থেকে চিত্রকর্ম দেখার সুবিধা থাকায় আশেপাশে কোনও হট্টগোল নেই। কার পার্কে চিত্রকর্ম দেখার জন্য প্রতিটি গাড়িকে ঘণ্টায় সাড়ে ৪ ইউরো (৪৩০ টাকা) গুনতে হচ্ছে।
তথ্যসূত্র: বিবিসি

/জেএইচ/
টপ