X
সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪
১০ আষাঢ় ১৪৩১

সংগ্রহ করা চালের মান নিয়ে আপস নয়: খাদ্যমন্ত্রী

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
০৭ মে ২০২৩, ১৭:১৩আপডেট : ০৭ মে ২০২৩, ১৭:১৭

খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার এমপি বলেছেন, সরকার চায় কৃষক তার ফসলের ভালো দাম পাক। কৃষক ভালো দাম পেলে আমরা খুশি। সেটা নিশ্চিত করতে আমরা কাজ করছি। তিনি বলেন,‘বোরো মৌসুমে সংগ্রহ করা চালের মান নিয়ে কোনও আপস হবে না।’

রবিবার (৭ মে) সচিবালয়ে নিজ অফিস কক্ষে ‘বোরো সংগ্রহ অভিযান ২০২৩’- এর ভার্চুয়াল উদ্বোধন শেষে আয়োজিত প্রেস ব্রিফিংয়ে তিনি এসব কথা বলেন।

খাদ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বোরো মৌসুমে সংগ্রহ করা চালের মান নিয়ে কোনও আপস হবে না। চালের মান ঠিক রেখে, সঠিকভাবে শতভাগ সংগ্রহ সম্পন্ন করার জন্য ইতোমধ্যে মাঠ পর্যায়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীদেরকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।’

এ সময় তিনি আরও বলেন, ‘অনেকে মনে করেছিল দেশে দুর্ভিক্ষ হবে, অনেক কামাই করবে। তাই আমন মৌসুমে তারা মজুত করেছিল। কিন্তু তাদের সেই আকাঙ্ক্ষা পূরণ হয়নি।’

তিনি জানান, চলতি বোরো মৌসুমে সরকার ৪ লাখ টন বোরো ধান সংগ্রহ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তবে কৃষক যদি ধানের দাম ঠিকভাবে না পায়, তাহলে সরকার প্রয়োজনে ৭-৮ লাখ টন ধান কিনবে। আর চাল কেনা হবে সাড়ে ১২ লাখ টন।’

সাধন চন্দ্র মজুমদার বলেন, ‘সবকিছু বিবেচনায় নিয়ে সরকার এবার বেশি দামে ধান কিনছে। কৃষকদের স্বার্থ বিবেচনায় এটা করা হয়েছে। কৃষকরা ধান দিতে এসে যেন কষ্ট না পায়। ধান দিতে এসে যেন ফেরত না যায়, সেটা খাদ্য বিভাগের কর্মকর্তা- কর্মচারীদের নিশ্চিত করতে হবে। তবে ধানের আদ্রতার পরিমাণ ১৪ ভাগের ক্ষেত্রে ছাড় দেওয়া যাবে না। আদ্রতা ঠিক থাকলে ধান ফেরত দেওয়া যাবে না।’

তিনি বলেন, ‘১৫ দিনের মধ্যে কৃষকের সব ধান কেটে ফেলা উচিত। কেননা, এরইমধ্যে ঝড়বৃষ্টি শুরু হয়েছে। স্থানীয় প্রশাসন কৃষকদের এ বিষয়ে সচতেন করতে ভূমিকা রাখত পারে।’

মন্ত্রী বলেন, ‘গত মৌসুমে যেসব মিল মালিক চাল দেওয়ার জন্য চুক্তি করেনি, তাদের কালো তালিকাভুক্ত করে ফিট লিস্টে নাম না পাঠানোর জন্য খাদ্য কর্মকর্তাদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। যারা চুক্তি করে সরকারকে সহায়তা করেছে, তারা সরকারের সুনজরে আছে। যারা আংশিক শর্ত পূরণ করেছ তারাও এ বছর চুক্তি করতে পারবে। একইসঙ্গে কেউ যেন অবৈধ মজুত করতে না পারে— এ বিষয়েও কর্মকর্তাদের সতর্ক করা হয়েছে।’

উল্লেখ্য, এর আগে গত ১৩ এপ্রিল মন্ত্রিপরিষদ সভাকক্ষে খাদ্য পরিকল্পনা ও পরিধারণ কমিটির (এফপিএমসি) সভায় বোরো ধান,চাল ও গমের মূল্য নির্ধারণ করা হয়।

সভায় আসন্ন বোরো সংগ্রহ ২০২৩ মৌসুমে ৪ লাখ টন ধান, সাড়ে ১২ লাখ টন সিদ্ধ চাল এবং ১ লাখ টন গম সংগ্রহের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়। অভ্যন্তরীণ সংগ্রহ আজ ৭ মে থেকে শুরু হয়ে ৩১ আগস্ট ২০২৩ পর্যন্ত চলবে।

প্রতি কেজি বোরো ধানের সংগ্রহ মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ৩০ টাকা, সিদ্ধ চাল  ৪৪ টাকা এবং গম ৩৫ টাকা। ২০২২ সালে ধান-চালের দাম ছিল যথাক্রমে  ধান ২৭ টাকা, সিদ্ধ চাল ৪০ টাকা এবং গম ২৮ টাকা।

/এসআই/এপিএইচ/
সম্পর্কিত
দেশের একটি মানুষও অনাহারে থাকে না: খাদ্যমন্ত্রী
সরকারি ‘কার্নেল ফ্যাক্টরি’ উদ্বোধন, প্রতি ঘণ্টায় প্রস্তুত হবে ৪০০ কেজি চাল
চীনের মরুভূমিতে ধান চাষ
সর্বশেষ খবর
ভারত সফর নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন মঙ্গলবার
ভারত সফর নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন মঙ্গলবার
পল্লবীতে শাহিন হত্যা: ৩ বছরেও শুরু হয়নি মামলার বিচার
পল্লবীতে শাহিন হত্যা: ৩ বছরেও শুরু হয়নি মামলার বিচার
ইউজিসিকে ছয় দফা সুপারিশ মহিলা পরিষদের
ইউজিসিকে ছয় দফা সুপারিশ মহিলা পরিষদের
নৈতিকতা শিক্ষাদান: ভিন্ন পদ্ধতির সন্ধানে
নৈতিকতা শিক্ষাদান: ভিন্ন পদ্ধতির সন্ধানে
সর্বাধিক পঠিত
ওসিকে ধাক্কা দিয়ে চাকরি হারালেন সেই এএসআই
ওসিকে ধাক্কা দিয়ে চাকরি হারালেন সেই এএসআই
আঠাবিহীন কাঁঠাল চাষে চমক, তিন মাসেই ফল, দেবে বারো মাস
আঠাবিহীন কাঁঠাল চাষে চমক, তিন মাসেই ফল, দেবে বারো মাস
‘কক্সবাজারে সেনানিবাস না থাকলে দখল করে নিতো আরাকান আর্মি’
‘কক্সবাজারে সেনানিবাস না থাকলে দখল করে নিতো আরাকান আর্মি’
৭৭ বছর পর ট্রেন যাবে কলকাতায়, রাজশাহীতে উচ্ছ্বাস
৭৭ বছর পর ট্রেন যাবে কলকাতায়, রাজশাহীতে উচ্ছ্বাস
কাঁঠালের বিচি খাওয়ার ১০ উপকারিতা
কাঁঠালের বিচি খাওয়ার ১০ উপকারিতা