১৪ হাজার কমিউনিটি ক্লিনিকে ২৪ ঘণ্টা স্বাস্থ্যসেবা দেওয়া হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৯:০৪, জানুয়ারি ২৩, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৯:৩৯, জানুয়ারি ২৩, ২০২০

ভোরের কাগজ পত্রিকা অফিসের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত গোলটেবিল বৈঠকে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেকদেশের ১৪ হাজার কমিউনিটি ক্লিনিকে ২৪ ঘণ্টা স্বাস্থ্যসেবা দেওয়া হবে। নিরাপদ মাতৃত্ব, শিশু মৃত্যুহার সর্বনিম্ন পর্যায়ে নামিয়ে আনতে প্রত্যন্ত গ্রামে ২৪ ঘণ্টা স্বাস্থ্যসেবা দেওয়ার বিকল্প নেই। এজন্য কমিউনিটি ক্লিনিকগুলোতে চিকিৎসকসহ সেবা কর্মকর্তা-কর্মচারীদের রাতযাপনের নিরাপদ আবাসস্থল বানানোর উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী জাহিদ মালেক।

আজ বৃহস্পতিবার (২৩ জানুয়ারি) দৈনিক ভোরের কাগজ পত্রিকার কনফারেন্স রুমে ভোরের কাগজ ও এনজিও ফোরাম বাংলাদেশ আয়োজিত বাংলাদেশের হাসপাতালগুলোতে নিরাপদ পানি ও স্যানিটেশন নিশ্চিতকরণ শীর্ষক এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী আরও বলেন, “দেশের ১৪ হাজার কমিউনিটি ক্লিনিকের প্রতিটিতে ন্যূনতম দুটি করে ব্যবহারযোগ্য টয়লেট সরঞ্জাম প্রদান করা হয়েছে। এগুলো নারী ও পুরুষদের জন্য আলাদা করে দেওয়া হয়েছে। পরিচ্ছন্নতাকর্মীর ঘাটতি থাকায় সব ক্লিনিক সমানভাবে পরিচ্ছন্ন হয়তো নেই। তবে দ্রুতই পর্যাপ্ত পরিচ্ছন্নতাকর্মী নিয়োগ দেওয়া হবে এবং তখন টয়লেটের অপরিচ্ছন্নতাও দূর হবে।”

এক পরিসংখ্যান তুলে ধরে মন্ত্রী জানান, “দেশে বর্তমানে ৭২ ভাগ সরকারি হাসপাতালে উন্নত ও পরিচ্ছন্ন টয়লেট ব্যবস্থা রয়েছে। অবশিষ্ট ২৮ ভাগ টয়লেট আধুনিকায়ন ও পরিচ্ছন্ন করার উদ্যোগও হাতে নেওয়া হয়েছে। এ বছরই বাকি ২৮ ভাগ টয়লেট পরিচ্ছন্ন হবে বলে আশা করছি।”

সভায় ভোরের কাগজের সম্পাদক শ্যামল দত্ত বলেন, “১৯৯০ সালের দিকে গ্রামের মানুষ খোলা জায়গায় মল-মূত্র ত্যাগ করতো। বর্তমান সময়ে এ পরিস্থিতির আমূল পরিবর্তন হয়েছে। এখন মানুষ কেবল টয়লেটই চায় না; বরং আধুনিক টয়লেটের দিকে ঝুঁকে গেছে। মানুষের চাহিদা ও মননশীলতায় বর্তমানে অনেক পরিবর্তন এসেছে।
ভোরের কাগজের সম্পাদক শ্যামল দত্তের উপস্থাপনায় আলোচনায় আরও অংশ নেন জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদফতরের প্রধান প্রকৌশলী সাইফুর রহমান, স্থানীয় সরকার বিভাগের জাতীয় পরামর্শক পলিসি সাপোর্ট-এর মনিরুজ্জামানসহ অন্যরা।

/জেএ/টিএন/এমওএফ/

লাইভ

টপ