লকডাউন ওয়ারী: ৩৫ জনের মধ্যে পজিটিভ ১৭

Send
শাহেদ শফিক
প্রকাশিত : ২০:৪৭, জুলাই ০৬, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২১:১২, জুলাই ০৬, ২০২০

ওয়ারীকরোনা সংক্রমণের ‘রেড জোন’ হিসেবে চিহ্নিত করে রাজধানীর ওয়ারীকে লকডাউন করা হয়েছে। শনিবার (৪ জুলাই) থেকে এ লকডাউন বাস্তবায়ন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি)। পাশাপাশি এলাকার নির্ধারিত বুথে করোনায় আক্রান্ত ব্যক্তিদের নমুনা সংগ্রহ ও পরীক্ষা করা হচ্ছে। শনি ও রবিবার দুই দিনে ৩৫ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়। এর মধ্যে ১৭ জন পজিটিভ শনাক্ত হয়েছেন। অর্থাৎ, সংগৃহীত নমুনার অর্ধেকই করোনা পজিটিভ।

ডিএসসিসির সূত্র জানিয়েছে, লকডাউন এলাকায় নমুনা সংগ্রহের জন্য র‌্যাংকিং স্ট্রিটে অবস্থিত ওয়ারী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বুথ স্থাপন করা হয়েছে। সেখানে প্রতিদিন ৬০ জনের নমুনা সংগ্রহ করার সক্ষমতা রয়েছে। প্রতিদিনই করোনা উপসর্গ নিয়ে আসা ব্যক্তিদের নমুনা সংগ্রহ করা হচ্ছে। পরদিন সকালে সেই রিপোর্ট দেওয়া হয়। সকাল ৯টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত এই বুথটি খোলা থাকে। বুথে সরকার নির্ধারিত ইউজার ফি দিয়ে উপসর্গযুক্ত ব্যক্তিরা নমুনা দিতে পারেন।

বুথের দায়িত্বে থাকা ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের অঞ্চল-৫ এর সমাজ কল্যাণ শাখার তত্ত্বাবধায়ক নুরুল ইসলাম খান নাঈম বাংলা ট্রিবিউনকে জানান, প্রতিদিন তারা ৬০ জনের নমুনা সংগ্রহ করতে পারবেন। কিন্তু এ পরিমাণ লোক এখনও আসছে না। যারা করোনা উপসর্গ নিয়ে সেখানে আসছেন তাদের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হচ্ছে।

তিনি বলেন, লকডাউনের প্রথম দিন (৪ জুলাই) ১৬ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। তাদের মধ্যে সাত জনের করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে। দ্বিতীয় দিন ৫ জুলাই ১৯ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়। তাদের মধ্যে করোনা পজিটিভ এসেছে ১০ জনের। অর্থাৎ, দুই দিনে মোট ৩৫ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয় এবং এদের ১৭ জন করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে। আর  সোমবার (৬ জুলাই) নমুনা সংগ্রহ হয়েছে ১৬ জনের। তাদের রিপোর্ট মঙ্গলবার (৭ জুলাই) পাওয়া যাবে।

/এপিএইচ/

লাইভ

টপ