মুচলেকা দিয়ে ছাড়া পেলেন নুর

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ২৩:১৪, সেপ্টেম্বর ২১, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০০:৫৯, সেপ্টেম্বর ২২, ২০২০

নুরুল-হক-নুরঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের সাবেক সহ-সভাপতি (ভিপি) নুরুল হক নুরসহ ৭ জনকে আটকের পর মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দিয়েছে পুলিশ। সোমবার (২১ সেপ্টেম্বর) রাত ১১টার দিকে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের যুগ্ম কমিশনার মাহবুব আলম বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, তাদের মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। নুর কিছুটা অসুস্থবোধ করায় তাকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়েছিল। পরে হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে নুরকে ডিবি কার্যালয়ে নিয়ে মুচলেকার মাধ্যমে তার পরিবারের জিম্মায় ছেড়ে দেওয়া হয়।
ঢামেক সূত্রে জানা গেছে, নুরের শরীরে মারাত্মক কোনও আঘাতের চিহ্ন নেই, কয়েক জায়গায় ছুলে গেছে। প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। এছাড়া কয়েকটি এক্স-রে করা হয়েছিল। রিপোর্টে খারাপ কিছু আসেনি। তিনি সুস্থ আছেন। রাত ১১.৪৫ পর্যন্ত তিনি ঢাকা মেডিক্যালেই রয়েছেন।
এর আগে সন্ধ্যায় মৎস্য ভবন মোড় থেকে নুরসহ ৭ জনকে আটক করা হয়। তারা মৎস্য ভবন এলাকায় বিক্ষোভ করছিলেন। এ সময় বাধা দিলে তারা পুলিশের ওপর চড়াও হন। এরপর নুরসহ সাত জনকে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের কার্যালয়ে নিয়ে যাওয়া হয়।
প্রসঙ্গত, রবিবার (২০ সেপ্টেম্বর) রাতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থী বাদী হয়ে রাজধানীর লালবাগ থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। মামলায় নুরসহ একাধিক জনকে আসামি করা হয়েছে। আসামিরা হলেন, হাসান আল মামুন, নাজমুল হাসান, নুরুল হক নুর, মো. সাইফুল ইসলাম, নাজমুল হুদা ও আবদুল্লাহ হিল বাকি। এরমধ্যে মূল অভিযুক্ত হাসান আল মামুন আর নুরের বিরুদ্ধে ধর্ষণে সহায়তার অভিযোগ আনা হয়েছে।

ধর্ষণের অভিযোগে দায়ের করা মামলার এজাহার গ্রহণ করেছেন আদালত। সোমবার ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট বেগম ইয়াসমিন আরা এজাহার গ্রহণ করে প্রতিবেদন দাখিলের জন্য আগামী ৭ অক্টোবর দিন ধার্য করেন। এজাহার দাখিলের জন্য পাঠান লালবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা। আদালত সংশ্লিষ্ট সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

আরও পড়ুন:

পুলিশ হেফাজতে নুর

ভিপি নুরসহ ছয় জনের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা: প্রতিবেদন দাখিলের দিন ধার্য



মামুন ও নুরদের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলায় যা বলা হয়েছে

/আরজে/এনএল/এমআর/এনএস/এমওএফ/

লাইভ

টপ