‘মাশরাফি চাইলে টি-টোয়েন্টি খেলতে পারে’

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৬:১৫, এপ্রিল ০৭, ২০১৭ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:৩২, এপ্রিল ০৭, ২০১৭

Bangladeshশুক্রবার সকালে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পা রাখেন মাশরাফি-মুশফিকরা। তাদের ফুলের তোড়া দিয়ে সংবর্ধনা দেন বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন ও শীর্ষ কর্মকর্তারা। বোর্ড প্রধান সেখানেই জানান, মাশরাফিকে প্রয়োজনে ফেরানো হতে পারে টি-টোয়েন্টিতে।

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচের কয়েক মিনিট আগে ফেসবুকের ফ্যান পেজে জানা গেল ছোট ফরম্যাট থেকে অবসরের ঘোষণা দিয়েছেন মাশরাফি মর্তুজা। টস করতে এসে বাংলাদেশের অধিনায়ক প্রকাশ্যে জানালেন গুজব নয়, শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজই তার টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারের শেষ। ভক্ত-সমর্থক তো বটেই, সতীর্থরাও চমকে গেলেন। অধিনায়ককে সিদ্ধান্ত থেকে ফেরাতে দেশের এপ্রান্ত থেকে ওপ্রান্তে ভক্তরা মানববন্ধন করছেন এখনও। সিদ্ধান্তে অটল থেকে দেশে ফিরে আপ্লুত ভক্তদের উদ্দেশ্যে মাশরাফি বলেছেন, ‘আমি তো ওয়ানডেতে আছি। মাঠে দেখতে পাবেন আমাকে। অনেক আনন্দ উদযাপনও হবে।’

এর আগে মাশরাফির অবসরের খবরের পর বিসিবি প্রধান বলেছিলেন, তিনি শুধু অধিনায়কত্ব ছাড়ার কথা জানতেন। একেবারেই যে টি-টোয়েন্টি থেকে বিদায় নেবেন সেটা জানতেন না। দল দেশে ফেরার পর সেই কথাই যেন ঘুরিয়ে ফিরিয়ে বললেন নাজমুল।

মাশরাফিকে দলের প্রয়োজনে ফেরানো হবে জানিয়েছেন বোর্ড সভাপতি, ‘আমরা বলিনি যে মাশরাফি টি-টোয়েন্টি দলে নেই। সে অধিনায়কত্ব ছেড়েছে। দলের প্রয়োজনে তাকে টি-টোয়েন্টি দলে ফেরানো হতে পারে। সে-ও চাইলে খেলতে পারে।’

মাশরাফির বিদায়ী ম্যাচ নিয়ে আপ্লুত ছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও। খেলা শেষ হওয়ার পর বিদায়ী অধিনায়ককে ফোন করে অবসরের এ সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনার অনুরোধ জানান তিনি। বিশ্বস্ত সূত্রে জানা যায়, শ্রীলঙ্কা সফরে বাংলাদেশ শেষ ম্যাচ জেতার সঙ্গে-সঙ্গে গণভবন থেকে মাশরাফিকে ফোন করে জয়ের জন্য অভিনন্দন জানান। একই সঙ্গে এখনই টি-টোয়েন্টি থেকে অবসর না নেওয়ার অনুরোধ জানান তিনি।

/এফএইচএম/

লাইভ

টপ