অস্ট্রেলিয়া ১৪, পাকিস্তান ০

Send
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত : ২৩:০২, ডিসেম্বর ০২, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২৩:০২, ডিসেম্বর ০২, ২০১৯

অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক টিম পেইন ও পাকিস্তান অধিনায়ক আজহার আলীটানা দুই টেস্টে ইনিংস ব্যবধানে হেরেছে পাকিস্তান। অস্ট্রেলিয়া সফরে ব্যাটিং, বোলিং কিংবা ফিল্ডিং— সব বিভাগে ভরাডুবি আজহার আলীদের। হারের বৃত্তে ঘুরপাক খাওয়া পাকিস্তান লজ্জার এক রেকর্ডও সঙ্গী করেছে। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে হেরেছে টানা ১৪ টেস্ট, অ্যাওয়ে ম্যাচে সবচেয়ে খারাপ রেকর্ড এটিই।

সোমবার শেষ হওয়া অ্যাডিলেড টেস্টে পাকিস্তানকে ইনিংস ও ৪৮ রানে হারিয়েছে অস্ট্রেলিয়া। এর আগে ব্রিসবেনের প্রথম টেস্ট স্বাগতিকরা জিতেছিল ইনিংস ও ৫ রানে। বড় দুই জয়ে সফরকারীদের ২-০তে হোয়াইটওয়াশ করেছে তারা। এই দুই টেস্টের প্রথম ম্যাচে বাবর আজম ও দ্বিতীয় ম্যাচে স্পিনার ইয়াসির আলীর সেঞ্চুরি বাদ দিলে কেবল হতাশার গল্পই মিসবাহ-উল-হকের দলের।

এবারের সিরিজে দাপট দেখানো অস্ট্রেলিয়া ঘরের মাঠে পাকিস্তানের বিপক্ষে জয়ের রেকর্ডটা নিয়ে গেছে ১৪-০তে। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে পাকিস্তানের টানা ১৪ টেস্ট হারের লজ্জার ভ্রমণ শুরু সেই ১৯৯৯ সাল থেকে। যাতে টেস্ট খেলুড়ে কোনও দলের সবচেয়ে লম্বা সময় প্রতিপক্ষের মাঠে হারের রেকর্ডটা যোগ হয়েছে পাকিস্তানের নামের পাশে। এ নিয়ে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টানা পাঁচ টেস্ট সিরিজে হোয়াইটওয়াশ হলো এশিয়ার দেশটি।

অস্ট্রেলিয়ার মাঠে পাকিস্তান সবশেষ জয় দেখেছিল সেই ১৯৯৫ সালে। সেবার জয়ের দেখা পেলেও তিন ম্যাচের সিরিজ হারতে হয়েছিল ২-১ ব্যবধানে। তবে এবারের মতো এতটা খারাপ পরিস্থিতিতে কখনও পড়তে হয়নি তাদের। বিশেষ করে বোলিং নিয়ে সমালোচনা হচ্ছে সবচেয়ে বেশি। যে পাকিস্তানের পেস বোলিং বরাবরই ক্রিকেট বিশ্বের সমীহ আদায় করে নেয়, সেই দলটির পেস আক্রমণ ছিল একেবারেই সাদামাটা।

দুই টেস্টে একটি করে ইনিংসে ব্যাট করার সুযোগ পেয়েছে অস্ট্রেলিয়া। ওই দুই ইনিংসে পাকিস্তানি বোলারদের রীতিমত শাসন করেছেন ডেভিড ওয়ার্নার। প্রথম টেস্টে ১৫৪ রান করা এই ওপেনার অ্যাডিলেডের দ্বিতীয় টেস্টে তো পেয়ে যান প্রথম ট্রিপল সেঞ্চুরি। ডন ব্র্যাডম্যানকে ছাড়িয়ে খেলেছেন হার না মানা ৩৩৫ রানের ইনিংস।

/কেআর/

লাইভ

টপ