‘গেইল দুটির বেশি ম্যাচ খেলবেন না’

Send
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত : ২১:৪৪, ডিসেম্বর ০৯, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২২:০৫, ডিসেম্বর ০৯, ২০১৯

291705বিপিএল ড্রাফটে নাম কেমন করে এলো- বিস্ময় প্রকাশ করেছিলেন ক্রিস গেইল। তাতে করে বঙ্গবন্ধু বিপিএলে তার খেলা নিয়ে শঙ্কা জেগেছিল। তবে তাকে দলে নেওয়া চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স ওই নাটকীয়তার অবসান ঘটিয়ে জানায়, খেলবেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের ওপেনার। সোমবার দলের জার্সি উন্মোচন অনুষ্ঠানে টিম ডিরেক্টর জালাল ইউনুস বললেন, দুটি ম্যাচ খেলবেন গেইল।

গেইলের খেলা নিয়ে কোনও সংশয় নেই জানালেন চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের এই কর্মকর্তা। তবে হ্যামস্ট্রিংয়ের চোটের কারণে শেষ দিকে ওয়েস্ট ইন্ডিজের হার্ডহিটারকে দেখা যাবে বললেন তিনি, ‘ক্রিস গেইলের ইনজুরির মাত্রাটা বেশি। শেষ দিকে তাকে দেখা যাবে, দুটির বেশি ম্যাচ খেলতে পারবেন না তিনি। ইমাদ ওয়াসিমকেও আমরা পাচ্ছি না। তিনিও ইনজুরিতে। মাহমুদউল্লাহ রিয়াদও প্রথম এক-দুই ম্যাচ খেলতে পারবেন না। আশা করি পরে তাকে পুরোপুরি পাবো।’

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) পরিচালক ও চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের টিম ডিরেক্টর জালাল দলের লক্ষ্য নিয়ে বলেছেন, ‘প্রত্যেক ম্যাচ ধরে ধরে এগোতে হবে। ভবিষ্যতে কী হবে, শেষ চারে থাকতে পারবো কিনা- সেসব নিয়ে এখনই ভাবতে চাচ্ছি না। আমাদের প্রথম ম্যাচ সিলেট থান্ডারের বিপক্ষে। ওই ম্যাচ জিতি, তারপর পরের ম্যাচ নিয়ে ভাববো।’

পাকিস্তান সফরে দুটি টেস্ট ও তিনটি টি-টোয়েন্টি খেলার কথা বাংলাদেশের। এই সফরের বিষয়টি এখনও ঝুলে রয়েছে। নিরপাত্তা পর্যবেক্ষকদের রিপোর্টের ভিত্তিতে সরকারের সবুজ সংকেতের অপেক্ষায় বোর্ড। এরই মধ্যে পাকিস্তান একটি দিবা-রাত্রির টেস্ট আয়োজনের প্রস্তাব দিয়েছে বাংলাদেশকে। এনিয়ে জালাল বলেছেন, ‘আমরা এখনও কোনও সিদ্ধান্ত নেইনি।  আমরা মেয়েদের ও জুনিয়র দলকে পাঠিয়েছিলাম।  নিরাপত্তা নিয়ে এই মুহূর্তে আমাদের কোনও অভিযোগ নেই। যদিও নিরাপত্তা প্রতিনিধি দল সফর করেছে কয়েক মাস আগে।  একেক সময় একেক রকম থ্রেট লেভেল থাকে। আমরা আবার নিরাপত্তা পর্যবেক্ষণ করবো। এরপর সরকার সবুজ সংকেত দিলে আমরা চিন্তা ভাবনা করবো পাকিস্তান যাবো কী যাবো না।  এই মুহূর্তে বলা যাচ্ছে না কিছুই। গোলাপি বলের টেস্ট নিয়েও আলোচনা হয়নি। সিরিজ চূড়ান্ত হলে আমরা সেটা নিয়ে সিদ্ধান্ত নিবো।’

চলতি ডিসেম্বরেই পাকিস্তানে দুটি টেস্ট খেলবে শ্রীলঙ্কা। এই সিরিজেও নিরাপত্তা নিয়ে আভাস পাওয়া যাবে বললেন বোর্ড পরিচালক, ‘শ্রীলঙ্কা খেললে অবশ্যই তাদের জন্য প্লাস পয়েন্ট। পুরো সিরিজটা ঝামেলা ছাড়া হলে আমাদের জন্যও ভালো। আমরা অনেক কিছু দেখার সুযোগ পাবো। যেহেতু জানুয়ারিতে সিরিজ, ডিসেম্বরেই আমরা চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানাতে পারবো।’

/এফএইচএম/

লাইভ

টপ