ঈদ নিয়ে মাশরাফি-মুশফিকদের অনুরোধ

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৩:৩৯, মে ২৪, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৩:৫৩, মে ২৪, ২০২০

সোমবার সারাদেশে উদযাপিত হবে পবিত্র ঈদুল ফিতর। ঈদের দুই দিন আগে তামিম ইকবালের আড্ডায় যোগ দিয়েছেন জাতীয় দলের তিন সিনিয়র ক্রিকেটার মাশরাফি মুর্তজা, মাহমুদউল্লাহ ও মুশফিকুর রহিম। অনুষ্ঠানে ক্রিকেট ভক্তদের ঈদের শুভেচ্ছার পাশাপাশি করোনাকালের ঈদ উদযাপন নিয়ে কিছু পরামর্শও দিয়েছেন তারা।

ঈদ মানে খুশি, ঈদ মানে আনন্দ। উৎসবের এই দিনের খুশি-আনন্দ সব ম্লান হয়ে যাবে যদি সেটা ভাগাভাগি করে নিতে না পারেন একে অন্যের সঙ্গে। করোনাকালে সবকিছু স্থবির হয়ে থাকায় এবারের ঈদ অন্য সববারের মতো হচ্ছে না। অন্যরকম এই ঈদটা পরিবারের সঙ্গে ‘বিশেষভাবে’ কাটানোর আহ্বান মাশরাফিদের।

এবারের ঈদে বাসার বাইরে না যাওয়ার অনুরোধ মাশরাফির, ‘কঠিন একটা পরিস্থিতিতে ঈদ উদযাপিত হবে। ঈদটা অন্য সব ঈদের মতো নয়। আমাদের সবার জন্য এটা গ্রেট সুযোগ। একসঙ্গে ঘরে থেকে উদযাপন করার। বেঁচে থাকলে, সবাই সুস্থ থাকলে সামনে অনেক সুযোগ আসবে বাইরে বেড়ানোর।’

তাছাড়া বয়োজ্যেষ্ঠদের সময় দেওয়ার দারুণ সুযোগও দেখছেন সাবেক অধিনায়ক, ‘এই সময়টা বাসায় যারা মুরুব্বি আছেন, তাদেরকে আমরা সময় দিতে পারি। তাদের ঈদটা যেন স্পেশাল হয়ে ওঠে। ঈদের দিন তো মুরুব্বিরা তরুণদের কাছে পায় না। এবার সুযোগ তাদেরকে ছোটবেলা ফিরিয়ে দেওয়ার। আমি সবাইকে ঘরে থাকার অনুরোধ করব। ঈদ মোবারক।’

মাশরাফির কথার সঙ্গে তাল মিলিয়ে মুশফিক বলেছেন, ‘এটা একটা বিশেষ ঈদ। মাশরাফি ভাইয়ের মতো আমিও বলব সবকিছু মেনে যেন আমরা ঈদটা পালন করতে পারি। বাসার সবাইকে সময় দিন এবং বাসায় থাকুন। ঈদ মোবারক।’

তামিম অবশ্য কিছুটা আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েছিলেন। টানা কয়েকদিন লাইভ অনুষ্ঠানের মায়ায় পড়ে গিয়েছেন এই ওপেনার। শেষ পর্বের বিদায়বেলায় তিনি বলেছেন, ‘কালকে থেকে সাড়ে ১০টা বাজলে আমার খারাপ লাগবে। আমি শো-টা অনেক উপভোগ করেছি। তারপরও ভবিষ্যতে এমন সুযোগ পেলে আবার আসবো। সবাইকে ঈদ মোবারক।’

/আরআই/কেআর/

লাইভ

টপ