সেকশনস

অনলাইনে চাহিদা বেড়েছে সার্ভিসিং সেবার

আপডেট : ০৬ মে ২০২০, ১৫:৩০
image

করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে রাজধানীসহ প্রায় সারাদেশের সব জেলাতে চলছে লকডাউন। লকডাউনে মানুষ ঘরে অবস্থান করলেও কিছু পরিস্থিতিতে নাজেহাল কিন্তু হতেই হচ্ছে। এই ধরুন, হঠাৎ করেই আপনার বাসার এসি বা ফ্রিজ নষ্ট হয়ে গেল। কী করবেন?


এ ধরনের সমস্যার সমাধানে কাজ করে যাচ্ছে কিছু অনলাইন প্রতিষ্ঠান। তাদের ওয়েবসাইট বা ফেসবুক মেসেঞ্জারে সমস্যার সমাধান চাইলেই তারা হাজির হবে দোরগোড়ায়। করোনায় স্বাস্থ্যবিধি মেনেই সেবা দিচ্ছে তারা। সার্ভিসগুলোর চাহিদাও বেড়েছে বেশ। এয়ার কন্ডিশনার, ফ্রিজ, মাইক্রোওয়েভ ওভেন, টেলিভিশন, ল্যাপটপ সার্ভিসিংয়ের বেশ চাহিদা রয়েছে এই মুহূর্তে। এছাড়াও চাহিদা আছে কার রেন্ট, ইলেকট্রিশিয়ান, পানির কল ও মোটরসাইকেল মেকানিকের।
অনলাইনে সেবা পেয়ে সন্তুষ্ট এমন একজন হচ্ছেন মিরপুর ডিওএইচএস নিবাসী তানিয়া আফরোজ। তিনি বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘করোনা পরিস্থিতির মধ্যে গত সপ্তাহে আমার ওয়াশিং মেশিনটি নষ্ট হয়। তাই বাধ্য হয়ে একটি অনলাইন সেবা প্রতিষ্ঠানের শরণাপন্ন হই। দেখলাম তাদের প্রতিষ্ঠানের কর্মীরা যথেষ্ঠ দক্ষ। তারা স্বাস্থ্যবিধি মেনে আমার বাসায় এসে সেটি ঠিক করে দিয়ে গেলেন।’
উত্তরা নিবাসী তানভীর আহমেদ বলেন, ‘হঠাৎ করেই বাসার সিলিং ফ্যান কাজ করছিল না। এরকম সময়ে দুই ঘণ্টার মধ্যে সার্ভিস পাওয়াটা খুবই দুষ্কর। সেবাটি আমি অনলাইন থেকেই পেয়েছি। এবং যারা সার্ভিস দিতে এসেছিল তারা স্বাস্থ্যবিধি মেনে সার্ভিস দিয়েছে।’
কমলাপুরের রুম্মান ফালু বলেন, ‘হুট করেই লকডাউন শুরু হয়ে যাওয়ায় আমার বাইক ঠিকমত সার্ভিস করানো হয়ে উঠেনি। যেহেতু এই সময় বাইক চালানো যাচ্ছে না, বাসায় রাখতে হচ্ছে। তাই বাইকটা সার্ভিসিং করিয়ে রাখাই ভালো। কিন্তু এখনও তো কোনও গ্যারেজ খোলা নেই। এদিকে ফেসবুকে দেখলাম একটি প্রতিষ্ঠান বাসায় এসে বাইক সার্ভিসিং করিয়ে দিচ্ছে ‘ট্রেড দ্য গিয়ার’।
করোনা পরিস্থিতির মধ্যে অনলাইন সার্ভিসগুলো কীভাবে সেবা দিচ্ছে এ নিয়ে কথা হলো ‘সেবা এক্সওয়াইজেড’ এর কো ফাউন্ডার অ্যান্ড চিফ অপারেশনস অফিসার ইলমুল হক সজীবের সঙ্গে। তিনি বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘আমাদের যেসকল কর্মীরা সেবা দেয়, তাদেরকে আমরা লোকেশন বেইজড করেছি। তারা তাদের নিজ এলাকার মধ্যে সেবা দেয়, বাইরের কোনও এলাকায় যেতে হয় না। তাদেরকে আমরা মাস্ক, গ্লাভস ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার দিয়েছি যেন সংক্রমণ থেকে রক্ষা পায়। তাদের যাতায়াতের জন্য আলাদা গাড়ির ব্যবস্থা করা আছে। মিরপুর ডিওএইচএস এলাকায় বাইরের কারোর প্রবেশ নিষেধ। তাই আমাদের পাঁচজন কর্মী সেখানেই অবস্থান করেন সব সময়। এভাবে আমাদের সার্ভিসগুলো সারা ঢাকা শহরে ছড়িয়ে দিয়েছি। আমরা জানি এই মুহূর্তে সার্ভিসগুলো বেশি প্রয়োজন।’
‘ট্রেড দ্য গিয়ার’ এর নির্বাহী পরিচালক কাজী নাঈম বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘আমার চেষ্টা করছি বাসায় মোটরসাইকেলের সব ধরনের সার্ভিসিং করাতে। কারণ এই শহরের বড় একটি অংশ বাইক ব্যবহারে অভ্যস্ত। হুট করে লকডাউন শুরু হওয়াতে অনেকেই বাইক ব্যবহার করতে পারছে না। অপরিষ্কারভাবে ফেলে রেখেছে গ্যারেজে। যেটা বাইকের জন্য ক্ষতিকর। আমাদের দক্ষ টেকনিশিয়ান টিম স্বাস্থ্যবিধি মেনেই ঢাকা শহরে সেবাটি দিয়ে যাচ্ছে।’

/এনএ/

সম্পর্কিত

পারিবারিক পছন্দে বিয়ের কথা ভাবছেন?

পারিবারিক পছন্দে বিয়ের কথা ভাবছেন?

ভালোবাসায় কাটুক বিশেষ দিন

ভালোবাসায় কাটুক বিশেষ দিন

নাম খোদাই করেই চলে তার সংসার

নাম খোদাই করেই চলে তার সংসার

কোন গোলাপ কিসের প্রতীক?

কোন গোলাপ কিসের প্রতীক?

যেসব অভ্যাস আপনাকে তরুণ রাখবে দীর্ঘদিন

যেসব অভ্যাস আপনাকে তরুণ রাখবে দীর্ঘদিন

মোটরসাইকেলে আগ্রহ বেড়েছে নগরবাসীর

মোটরসাইকেলে আগ্রহ বেড়েছে নগরবাসীর

নতুন বছরে যেসব সংকল্প করবেন না মোটেই

নতুন বছরে যেসব সংকল্প করবেন না মোটেই

নতুন বছরের পরিকল্পনায় থাকুক এগুলো

নতুন বছরের পরিকল্পনায় থাকুক এগুলো

বাড়িতে থেকেই স্বাগত জানান নতুন বছরকে

বাড়িতে থেকেই স্বাগত জানান নতুন বছরকে

দিনাজপুরে দুই দিনব্যাপী পিঠা উৎসব

দিনাজপুরে দুই দিনব্যাপী পিঠা উৎসব

স্মৃতি ফামির ভার্চুয়াল রিয়েলিটি: অন্য এক বাস্তবতার গল্প

স্মৃতি ফামির ভার্চুয়াল রিয়েলিটি: অন্য এক বাস্তবতার গল্প

মাইক্রোগ্রিন মেটাবে সবুজের চাহিদা, আয়ের হাতছানিও আছে

মাইক্রোগ্রিন মেটাবে সবুজের চাহিদা, আয়ের হাতছানিও আছে

সর্বশেষ

বিরোধী দলীয় নেতা গ্রেফতারের পর সেনেগালে ব্যাপক বিক্ষোভ, সহিংসতা

বিরোধী দলীয় নেতা গ্রেফতারের পর সেনেগালে ব্যাপক বিক্ষোভ, সহিংসতা

অগ্নিঝরা ৬ মার্চ: বাংলার উপত্যকা জ্বলছে

অগ্নিঝরা ৬ মার্চ: বাংলার উপত্যকা জ্বলছে

আজ যশোরে উদীচী ট্র্যাজেডির ২২ বছরপূর্তি

আজ যশোরে উদীচী ট্র্যাজেডির ২২ বছরপূর্তি

আইনজীবীদের সংঘর্ষের ৩০ ঘণ্টা পর হাসপাতালে ভর্তি হলেন নারী এমপি

আইনজীবীদের সংঘর্ষের ৩০ ঘণ্টা পর হাসপাতালে ভর্তি হলেন নারী এমপি

মিয়ানমারের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ ব্যবস্থা নেওয়ার তাগিদ জাতিসংঘ দূতের

মিয়ানমারের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ ব্যবস্থা নেওয়ার তাগিদ জাতিসংঘ দূতের

করোনা মোকাবিলায় সফল তিন নেতার একজন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

করোনা মোকাবিলায় সফল তিন নেতার একজন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

যুদ্ধবন্দিদের মুক্তির প্রশ্নে পাকিস্তানই অন্তরায়

যুদ্ধবন্দিদের মুক্তির প্রশ্নে পাকিস্তানই অন্তরায়

কার্টুনিস্ট কিশোরের শারীরিক অবস্থা সম্পর্কে জানা যাবে রবিবার

কার্টুনিস্ট কিশোরের শারীরিক অবস্থা সম্পর্কে জানা যাবে রবিবার

সুস্থ ধারার কনটেন্ট তৈরি করতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহ্বান পলকের

সুস্থ ধারার কনটেন্ট তৈরি করতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহ্বান পলকের

জাতিসংঘের সব দাফতরিক ভাষায় ৭ মার্চের ভাষণ বিষয়ক গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন

জাতিসংঘের সব দাফতরিক ভাষায় ৭ মার্চের ভাষণ বিষয়ক গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন

সৌর ব্যতিচারের কারণে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের সম্প্রচারে বিঘ্ন ঘটতে পারে

সৌর ব্যতিচারের কারণে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের সম্প্রচারে বিঘ্ন ঘটতে পারে

মির্জাগঞ্জে গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

মির্জাগঞ্জে গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

পারিবারিক পছন্দে বিয়ের কথা ভাবছেন?

পারিবারিক পছন্দে বিয়ের কথা ভাবছেন?

ভালোবাসায় কাটুক বিশেষ দিন

ভালোবাসায় কাটুক বিশেষ দিন

নাম খোদাই করেই চলে তার সংসার

নাম খোদাই করেই চলে তার সংসার

কোন গোলাপ কিসের প্রতীক?

কোন গোলাপ কিসের প্রতীক?

যেসব অভ্যাস আপনাকে তরুণ রাখবে দীর্ঘদিন

যেসব অভ্যাস আপনাকে তরুণ রাখবে দীর্ঘদিন

মোটরসাইকেলে আগ্রহ বেড়েছে নগরবাসীর

মোটরসাইকেলে আগ্রহ বেড়েছে নগরবাসীর

নতুন বছরে যেসব সংকল্প করবেন না মোটেই

নতুন বছরে যেসব সংকল্প করবেন না মোটেই

নতুন বছরের পরিকল্পনায় থাকুক এগুলো

নতুন বছরের পরিকল্পনায় থাকুক এগুলো

বাড়িতে থেকেই স্বাগত জানান নতুন বছরকে

বাড়িতে থেকেই স্বাগত জানান নতুন বছরকে

দিনাজপুরে দুই দিনব্যাপী পিঠা উৎসব

দিনাজপুরে দুই দিনব্যাপী পিঠা উৎসব


[email protected]
© 2021 Bangla Tribune
Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.