সেকশনস

কান্তনগর মন্দিরে ফিরলো কান্তজীউ বিগ্রহ, আজ রাস উৎসব

আপডেট : ২৯ নভেম্বর ২০২০, ০০:০০

নগ্নপদব্রজে কান্তনগর মন্দিরে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে কান্তজীউ বিগ্রহকে ২৬৮ বছরের পুরনো ঐতিহ্য ও রাজপরিবারের প্রথা অনুযায়ী শ্রী শ্রী কান্তজীউ বিগ্রহ ফিরিয়ে নেওয়া হলো দিনাজপুরের কাহারোল উপজেলার ঐতিহ্যবাহী কান্তনগর মন্দিরে। রবিবার (২৯ নভেম্বর) দিবাগত রাতে এখানে রাসপূর্ণিমা উপলক্ষে রাস উৎসব হবে। প্রতিবছর এই আয়োজনকে কেন্দ্র করে মাসব্যাপী মেলা বসে। তবে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে এবার সংক্ষিপ্ত পরিসরে হচ্ছে।
কান্তনগর মন্দিরে রাস উৎসবে দেশ-বিদেশের লাখো ভক্ত-পুণ্যার্থীর সমাগম হয়। তবে এবার করোনাভাইরাসের কারণে তাদের সংখ্যা সীমিত রাখা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন মন্দিরের পূজারী পুলিন চক্রবর্তী। 


কান্তজীউ বিগ্রহকে কান্তনগর মন্দিরে নিয়ে যাওয়ার আগে পূজা-অর্চনা হয় দিনাজপুর রাজদেবোত্তর এস্টেটের নির্বাহী সদস্য উত্তম কুমার রায় বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘এবারে করোনার সংক্রমণ ঠেকাতে মেলার আয়োজন সংক্ষিপ্ত করা হয়েছে। যাতে করে হয়তো সরকারি রাজস্ব কম হবে। তবে সাধারণ মানুষ স্বাস্থ্যগতভাবে ভালো থাকবে। ঈশ্বরের কাছে এবার আমাদের প্রার্থনা যেন দ্রুত এই জীবাণু পৃথিবী থেকে বিদায় নেয় এবং ঈশ্বর যাতে সবাইকে ভালো রাখে।’

দিনাজপুর শহরের রাজবাড়ী থেকে শনিবার (২৮ নভেম্বর) সকাল ৯টায় নগ্নপদব্রজে কান্তজীউ বিগ্রহ যাত্রা শুরু করে। যাত্রাপথে চারটি স্থানে পূজা-অর্চনা শেষে দুপুর আড়াইটার দিকে কান্তনগর মন্দিরে পৌঁছায় এটি।
পূজা-অর্চনা শেষে ভক্ত-পুণ্যার্থীদের মধ্যে প্রসাদ বিতরণ করা হয় কান্তনগর মন্দিরের পূজারী বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘করোনাভাইরাস সংক্রমণ এড়াতে যাত্রাপথে সরকারঘোষিত স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলাসহ বাড়তি সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নেওয়া হয়। পূজা-অর্চনায় দেশ ও জাতির মঙ্গল কামনার পাশাপাশি করোনাভাইরাস থেকে সবাই যেন মুক্ত থাকে এবং দ্রুত বাংলাদেশসহ পৃথিবী থেকে জীবাণুটির বিদায়ের জন্য প্রার্থনা করা হয়।’
গত ৯ আগস্ট কান্তনগর মন্দির থেকে দিনাজপুর জেলা সদরে অবস্থিত রাজবাড়িতে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল কান্তজীউ বিগ্রহ। রাজপরিবারের প্রথা অনুযায়ী, রাজবাড়িতে প্রায় সাড়ে তিন মাস রাখার পর কান্তজীউ বিগ্রহ ফিরিয়ে নিয়ে যাওয়া হলো ঐতিহ্যবাহী কান্তনগর মন্দিরে।

নগ্নপদব্রজে কান্তনগর মন্দিরে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে কান্তজীউ বিগ্রহকে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের মতে, দিনাজপুর রাজবংশের রাজা প্রাণনাথ ১৭২২ সালে কান্তজিউ মন্দিরের নির্মাণ কাজ শুরু করেন। ১৭৫২ সালে এর কাজ শেষ করেন তার পোষ্যপুত্র রামনাথ। তখন থেকেই সাড়ে আট মাস কান্তনগর মন্দিরে এবং সাড়ে তিন মাস দিনাজপুর শহরের রাজবাড়িতে অবস্থান করে কান্তজীউ বিগ্রহ। জন্মাষ্টমীর দুই দিন আগে ধর্মীয় উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে দিনাজপুরে নিয়ে আসা হয় কান্তজীউ বিগ্রহ। কান্তনগর ঘাট থেকে দিনাজপুর শহরের সাধুর ঘাট পর্যন্ত ২৬টি ঘাটে কান্তজীউ বিগ্রহ বহনকারী নৌকাটি ভেড়ানো হয়। পূজা-অর্চনা শেষে রাজবাড়ির মন্দিরে স্থাপন করা হয় এটি। সেখানে প্রায় সাড়ে তিন মাস অবস্থান শেষে রাসপূর্ণিমার দুই দিন আগে পুনরায় কান্তনগর মন্দিরে নিয়ে যাওয়া হয় কান্তজীউ বিগ্রহ।

/জেএইচ/

সম্পর্কিত

কক্সবাজার সৈকতে মানুষের ঢেউ: রুম নেই, রাত কাটছে বালিয়াড়িতে

কক্সবাজার সৈকতে মানুষের ঢেউ: রুম নেই, রাত কাটছে বালিয়াড়িতে

ট্রাভেল এজেন্টদের জন্য এমিরেটসের সরাসরি বুকিং প্ল্যাটফর্ম

ট্রাভেল এজেন্টদের জন্য এমিরেটসের সরাসরি বুকিং প্ল্যাটফর্ম

ঘুরে আসুন জলদুর্গ ইদ্রাকপুর থেকে

ঘুরে আসুন জলদুর্গ ইদ্রাকপুর থেকে

গোলাপ গ্রামে এক বিকেল

গোলাপ গ্রামে এক বিকেল

কাপ্তাই হ্রদের বুকে সাদা শাপলার রাজ্য

কাপ্তাই হ্রদের বুকে সাদা শাপলার রাজ্য

বুদবুদি ছড়ায় অবারিত বিস্ময়

ট্রাভেলগবুদবুদি ছড়ায় অবারিত বিস্ময়

রাঙামাটির পাহাড়ের সৌন্দর্যে পর্যটকদের ভিড়

রাঙামাটির পাহাড়ের সৌন্দর্যে পর্যটকদের ভিড়

কক্সবাজার সৈকতে ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য

কক্সবাজার সৈকতে ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য

সৈকতে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য উন্মুক্ত হচ্ছে বিজয় দিবসে

সৈকতে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য উন্মুক্ত হচ্ছে বিজয় দিবসে

নতুন বছরে ঢাকা-দুবাই রুটে ইউএস-বাংলার ফ্লাইট

নতুন বছরে ঢাকা-দুবাই রুটে ইউএস-বাংলার ফ্লাইট

সর্বশেষ

টিভিতে আজ

টিভিতে আজ

সিংগাইরে বিএনপির মেয়র প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত

সিংগাইরে বিএনপির মেয়র প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত

করোনা শনাক্তের সংখ্যা ১১ কোটি ৪৬ লাখ ছাড়িয়েছে

করোনা শনাক্তের সংখ্যা ১১ কোটি ৪৬ লাখ ছাড়িয়েছে

মিয়ানমারে ১৮ বিক্ষোভকারী নিহতের ঘটনায় নিন্দা আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের

মিয়ানমারে ১৮ বিক্ষোভকারী নিহতের ঘটনায় নিন্দা আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের

২৬ মাস ধরে তৃতীয় বর্ষে,  পরীক্ষার দাবিতে অনশনে ২ শিক্ষার্থী

২৬ মাস ধরে তৃতীয় বর্ষে, পরীক্ষার দাবিতে অনশনে ২ শিক্ষার্থী

মাদকের টাকা না পেয়ে মাকে হত্যা করলো মেয়ে!

মাদকের টাকা না পেয়ে মাকে হত্যা করলো মেয়ে!

দিনে ১০ কোটি মিনিট করে কমেছে আন্তর্জাতিক ইনকামিং কল

দিনে ১০ কোটি মিনিট করে কমেছে আন্তর্জাতিক ইনকামিং কল

সিগারেটের আগুনে পুড়লো ১০০ বিঘা জমির পান বরজ

সিগারেটের আগুনে পুড়লো ১০০ বিঘা জমির পান বরজ

শোষকচক্রের যেকোনও অপচেষ্টার বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ থাকার আহ্বান বঙ্গবন্ধুর

শোষকচক্রের যেকোনও অপচেষ্টার বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ থাকার আহ্বান বঙ্গবন্ধুর

সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জেলায় নিহত ৮

সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জেলায় নিহত ৮

১০৬টি চেক জাল করে ৩৬ লাখ টাকা লুটপাট!

১০৬টি চেক জাল করে ৩৬ লাখ টাকা লুটপাট!

হবিগঞ্জে বিএনপি প্রার্থীসহ ৪ মেয়র প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত

হবিগঞ্জে বিএনপি প্রার্থীসহ ৪ মেয়র প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

কক্সবাজার সৈকতে মানুষের ঢেউ: রুম নেই, রাত কাটছে বালিয়াড়িতে

কক্সবাজার সৈকতে মানুষের ঢেউ: রুম নেই, রাত কাটছে বালিয়াড়িতে

ট্রাভেল এজেন্টদের জন্য এমিরেটসের সরাসরি বুকিং প্ল্যাটফর্ম

ট্রাভেল এজেন্টদের জন্য এমিরেটসের সরাসরি বুকিং প্ল্যাটফর্ম

ঘুরে আসুন জলদুর্গ ইদ্রাকপুর থেকে

ঘুরে আসুন জলদুর্গ ইদ্রাকপুর থেকে

গোলাপ গ্রামে এক বিকেল

গোলাপ গ্রামে এক বিকেল

কাপ্তাই হ্রদের বুকে সাদা শাপলার রাজ্য

কাপ্তাই হ্রদের বুকে সাদা শাপলার রাজ্য

বুদবুদি ছড়ায় অবারিত বিস্ময়

ট্রাভেলগবুদবুদি ছড়ায় অবারিত বিস্ময়

রাঙামাটির পাহাড়ের সৌন্দর্যে পর্যটকদের ভিড়

রাঙামাটির পাহাড়ের সৌন্দর্যে পর্যটকদের ভিড়

কক্সবাজার সৈকতে ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য

কক্সবাজার সৈকতে ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য

সৈকতে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য উন্মুক্ত হচ্ছে বিজয় দিবসে

সৈকতে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য উন্মুক্ত হচ্ছে বিজয় দিবসে


[email protected]
© 2021 Bangla Tribune
Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.