X
বুধবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২১, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

সেকশনস

টিকার মজুত শেষ হওয়ার পথে

আপডেট : ০৩ মে ২০২১, ১৭:০৬

টিকার মজুদ খুব বেশি নেই। যে পরিমাণ টিকা আনা হয়েছিল সেটা একেবারেই শেষ পর্যায়ে বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদফতর। আজ সোমবার (৩ মে)  দুপুরে ভার্চুয়াল বিফ্রিংয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মুখপাত্র অধ্যাপক ডা. নাজমুল ইসলাম এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, আমাদের টিকার কিছুটা সংকট আছে। কারণ ভারতের সেরাম ইন্সটিটিউট থেকে যে পরিমাণ টিকার প্রত্যাশা ছিল যথাসময়ে পাওয়ার সেটা এখনও পাইনি। সেটি পাওয়ার জন্য নানাভাবে যোগাযোগ চলছে। ভারতের বাইরেও যেসব দেশে অক্সফোর্ড অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা উৎপাদন করা হচ্ছে সেখানেও যোগাযোগ হচ্ছে। আমরা যদি পেয়ে যাই, তাহলে প্রথম ডোজের ঘাটতি পূরণ করা খুবই সহজ হয়ে যাবে।

পরে তিনি এক প্রশ্নের জবাবে বলেন, টিকার মজুদ আমাদের খুব বেশি নেই। আমরা যে পরিমাণ টিকা সংগ্রহ করেছিলাম, তা একেবারেই শেষের পর্যায়ে চলে এসেছে। গতকাল পর্যন্ত ৫৮ লাখ ১৯ হাজার ৭০৯ জন প্রথম ডোজ পেয়েছেন। দ্বিতীয় ডোজের টিকাদান কর্মসূচি চলমান আছে, সেটির জন্য নিবন্ধন করেছেন ২৯ লাখ ৩৬ হাজার ২৪১ জন।

এ মাসেই চীনের ভ্যাকসিন আসবে

ডা. নাজমুল ইসলাম বলেন, ‘আমরা আশা করছি, এ মাসেই চীনের ভ্যাকসিন আসবে। টিকা আসতে দেরি হোক বা যা-ই হোক না কেন, যতক্ষণ টিকা হাতে না আসছে মাস্ক হলো আমাদের সবচেয়ে বড় টিকা। এটি সহজলভ্য, আমরা সবাই নিয়ম মেনে, স্বাস্থ্যবিধি মেনে সেটি ব্যবহার করি।’ 

দেশে গত ৭ ফেব্রুয়ারি করোনা ভাইরাস প্রতিরোধী টিকাদান কার্যক্রম শুরু হয়। অক্সফোর্ড অ্যাস্ট্রাজেনেকার আবিষ্কৃত ভারতের সেরাম ইন্সটিটিউটে উৎপাদিত এই টিকা দেশে আনার বিষয়ে গত নভেম্বরে বাংলাদেশ সরকার, সেরাম ইন্সটিটিউট ও সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান বেক্সিমকো ফার্মার সঙ্গে ত্রিপক্ষীয় চুক্তি হয়।

চুক্তি অনুসারে প্রতি মাসে ৫০ লাখ ডোজ করে তিন কোটি ডোজে টিকা বাংলাদেশের পাওয়ার কথা। তবে এখন পর্যন্ত ভারত সরকারের উপহার ও সেরামের দেওয়া টিকা মিলিয়ে এসেছে মোট এক কেটি দুই লাখ ডোজ।

গত ফেব্রুয়ারি মাসে চুক্তির ৩০ লাখ এবং মার্চ মাসের ৫০ লাখ এবং এপ্রিল মাসের ৫০ লাখ টিকাও দেশে আসেনি।  অর্থাৎ চুক্তির এক কোটি ৩০ লাখ টিকা এখনও পায়নি বাংলাদেশ।

ইতোমধ্যে ভারত টিকা রফতানির ওপর নিষেধাজ্ঞা দেওয়ায় টিকা প্রাপ্তি নিয়ে অনিশ্চয়তা রয়েছে। আগামী কয়েকদিনে মধ্যেই দেশে টিকার মজুত ফুরিয়ে যাবে।

লকডাউনের সুফল পাচ্ছি

এদিকে, করোনা ভাইরাসকে মোকাবিলা করতে গিয়ে সরকারকে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করতে হয়েছে জানিয়ে ডা. নাজমুল বলেন, লকডাউন বা কঠোর বিধিনিষেধ পরিস্থিতিরি মধ্যে আমরা যাচ্ছি। আমরা যতটুকু প্রত্যাশা করি ততোটা কঠোরভাবে হয়তো লকডাউন প্রতিপালন হয় না। কিন্তু যেটুকু হয় তার খানিকটা সুফল কিছু দিন দেখতে পাচ্ছি।

গত কয়েকদিন নতুন শনাক্তের হার এবং মৃত্যুহার কমেছে উল্লেখ করে তিনি বলেন,  শনাক্তের হার ১০ এর নিচে চলে এসেছে। তবে এতে করে আত্মতুষ্টি এবং করোনা চলে গেছে ভাববার কোনও কারণ নেই। ঈদকে কেন্দ্র করে বিভিন্ন শপিংমলগুলোতে উপচেপড়া ভিড় হচ্ছে। সেখানে বেশিরভাগক্ষেত্রেই যেসব স্বাস্থ্যবিধি প্রতিপালন করার কথা ছিল সেটা মানা হচ্ছে না। অনেকেই ইফাতারের সময় মাস্ক খুলে ইফতার করছেন। কিন্তু মনে রাখতে হবে, স্বাস্থ্যবিধি প্রতিপালনে যারা অবহেলা করছেন বা অসেচতন থাকছেন তারা বাইরে থেকে সংক্রমিত হতে পারেন, যেটা পরিবারের অন্যদের জন্য বিপদের কারণ হয়ে দাঁড়াতে পারে, বলেন তিনি।

তাই আমরা অনুরোধ করছি, ঘর থেকে বাইরে বের হয়ে খাবারের অভ্যাস এড়িয়ে চলতে হবে, কোনও অবস্থাতেই যেন মাস্ক না খোলা হয় এবং সঠিকভাবে মাস্ক পরতে হবে। একইসঙ্গে সামাজিক দূরত্ব মেনে চলতে হবে। ২০ সেকেন্ড সময় নিয়ে হাত ধুতে হবে। আর এটা পরিবারের সবাইকে করতে হবে। আর  এজন্য দোকান মালিক সমিতিসহ সবাইকে অনুরোধ করেন স্বাস্থ্যবিধির বার্তাগুলো দৃশ্যমান স্থানে ঝুলিয়ে রাখার জন্য। 

 

 

/জেএ/এফএস/

সম্পর্কিত

করোনায় আরও ৫ মৃত্যু

করোনায় আরও ৫ মৃত্যু

শনাক্ত ও মৃত্যু কমেছে

শনাক্ত ও মৃত্যু কমেছে

ফের একদিনে নতুন রোগী ২৫০ ছাড়িয়ে

ফের একদিনে নতুন রোগী ২৫০ ছাড়িয়ে

এখনও পিছিয়ে টিকায়

এখনও পিছিয়ে টিকায়

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

করোনায় আরও ৫ মৃত্যু

করোনায় আরও ৫ মৃত্যু

শনাক্ত ও মৃত্যু কমেছে

শনাক্ত ও মৃত্যু কমেছে

ফের একদিনে নতুন রোগী ২৫০ ছাড়িয়ে

ফের একদিনে নতুন রোগী ২৫০ ছাড়িয়ে

এখনও পিছিয়ে টিকায়

এখনও পিছিয়ে টিকায়

প্রায় ৯ লাখ স্কুল শিক্ষার্থী প্রথম ডোজের আওতায়

প্রায় ৯ লাখ স্কুল শিক্ষার্থী প্রথম ডোজের আওতায়

৬ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৭৬

৬ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৭৬

‘কাউকে ছাড়ছি না, সবাইকে খুঁজে বের করবো’

‘কাউকে ছাড়ছি না, সবাইকে খুঁজে বের করবো’

মৃত্যু ৩, শনাক্ত ২৬১ জন

মৃত্যু ৩, শনাক্ত ২৬১ জন

ভারত থেকে এলো ৪৫ লাখ ডোজ টিকা

ভারত থেকে এলো ৪৫ লাখ ডোজ টিকা

সর্বশেষ

সাংবাদিক খাশোগি হত্যাকাণ্ডে ফ্রান্সে সৌদির নাগরিক গ্রেফতার

সাংবাদিক খাশোগি হত্যাকাণ্ডে ফ্রান্সে সৌদির নাগরিক গ্রেফতার

নমুনা না দিয়েই করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট পেলেন তিন বিদেশগামী

নমুনা না দিয়েই করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট পেলেন তিন বিদেশগামী

মেসি-এমবাপ্পের জোড়ায় ব্রুজকে উড়িয়ে  দিলো পিএসজি, হেরেছে ম্যান সিটি

মেসি-এমবাপ্পের জোড়ায় ব্রুজকে উড়িয়ে দিলো পিএসজি, হেরেছে ম্যান সিটি

৬ রোহিঙ্গাকে হত্যা, একজনের স্বীকারোক্তি

৬ রোহিঙ্গাকে হত্যা, একজনের স্বীকারোক্তি

প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে কটূক্তি: আলালের বিরুদ্ধে ঢাবি শিক্ষার্থীদের অভিযোগ ও জিডি

প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে কটূক্তি: আলালের বিরুদ্ধে ঢাবি শিক্ষার্থীদের অভিযোগ ও জিডি

© 2021 Bangla Tribune