X
বুধবার, ২৩ জুন ২০২১, ৮ আষাঢ় ১৪২৮

সেকশনস

ত্রিপল ঢাকা ট্রাকে মানুষ আসছে রংপুর অঞ্চলে

আপডেট : ১১ মে ২০২১, ২০:৩০

বড় বড় ট্রাকের ওপর ত্রিপল দিয়ে ঢেকে মালামালের মতো অসংখ্য মানুষ আসছে ঢাকা থেকে উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন জেলায়। মঙ্গলবার দুপুরে রংপুর নগরীর মেডিক্যাল মোড় এলাকায় ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজের কাছে ওভারব্রিজে দাঁড়িয়ে দেখা গেছে একটার পর একটা ত্রিপল দিয়ে ঢাকা ট্রাক আসছে রাজধানী থেকে। তারা সবাই ঢাকার বিভিন্ন কারখানার শ্রমিক ও নিম্ন আয়ের মানুষ। বাইরে থেকে মনে হচ্ছে সেগুলো মালবোঝাই ট্রাক। এসব ট্রাকের মধ্যে ঠাসাঠাসি করে আসছে হাজার হাজার মানুষ। ত্রিপল দিয়ে ঢাকা ট্রাকে দীর্ঘ পথ পাড়ি দিতে গিয়ে তাদের অনেকেই অসুস্থ হয়ে পড়েছেন।

সরেজমিন এ প্রতিনিধিসহ কয়েকজন সাংবাদিক দুটি ট্রাকের পিছু নেন। কিছু দূর যাওয়ার পর সিও বাজার পার হয়ে রংপুর-দিনাজপুর মহাসড়কের পাশে পেট্রোল পাম্পের কাছে ওই দুটি ট্রাক থামালে দেখা যায় ভয়াবহ দৃশ্য। ত্রিপল দিয়ে ঢাকা ট্রাকের ভেতরে ৫০ থেকে ৭০ মানুষ। গাদাগাদি করে বসে তারা আসছেন ঢাকার বিভিন্ন স্থান থেকে। জিজ্ঞাসা করে জানা গেছে, ট্রাকের ভেতরে বসে আসা মানুষরা যাচ্ছেন রংপুরের তারাগঞ্জ, নীলফামারীর জলঢাকা সৈয়দপুরসহ বিভিন্ন এলাকায়। তারা জানালেন, ৫শ’ টাকা ভাড়া দিয়ে তারা ঢাকা থেকে এভাবেই সীমাহীন কষ্ট সহ্য করে এসেছেন। মানিক নামে এক যুবক জানালেন, ঢাকার সাভারের কাছ থেকে তারা ট্রাকে উঠেছেন। তারা ওঠার পর পুরো ট্রাকের ওপর ত্রিপল দিয়ে ঢেকে রশি দিয়ে বেঁধে দিয়েছে ড্রাইভার আর হেলপার, যাতে বোঝা না যায় মানুষ না মালামাল যাচ্ছে। মানিক সৈয়দপুরের কাছে তার বাড়িতে যাবেন। দীর্ঘপথে অনেক কষ্ট লাগলেও বাড়ির কাছাকাছি আসার পর স্বজনদের সঙ্গে ঈদ করতে পারবেন সেজন্য তার ভালো লাগছে বলে জানালেন। একই কথা জানালেন নীলফামারীর জলঢাকার যাত্রী মোসলেম উদ্দিন। তিনি জানান, ৫শ’ টাকা আগাম ভাড়া দিয়ে ট্রাকে এভাবেই রংপুর পর্যন্ত আসতে পেরেছি। পথিমধ্যে দু-চার জায়গায় পুলিশ গাড়ি থামালেও ড্রাইভার হেলপার তাদের ম্যানেজ করে ফেলায় কোনও সমস্যা হয়নি। ট্রাকের ড্রাইভার আসলাম হোসেন বলেন, ‘৭০ জন মানুষ নিয়েছি। ৩৫ হাজার টাকা আয় হয়েছে।’ পথিমধ্যে ৪-৫ হাজার টাকা ব্যয় হলেও ভালোই লাভ হবে বলে আশা তার।

ট্রাকের ভেতরে থাকা অনেক যাত্রীকে অসুস্থ হয়ে পড়তে দেখা গেছে। তারা জানালেন, হাজার হাজার নারী-পুরুষ ট্রাকে করে ঢাকা থেকে দেশের বিভিন্ন স্থানে যাচ্ছেন। বিশেষ করে রংপুর বিভাগের বিভিন্ন জেলার মানুষের সংখ্যা সবচেয়ে বেশি।

সার্বিক বিষয়ে জানার জন্য রংপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের এক কর্মকর্তার সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি কোনও মন্তব্য করতে রাজি হননি।

/এমএএ/এমওএফ/

সম্পর্কিত

বিপৎসীমার ওপরে তিস্তার পানি, গঙ্গাচড়ায় ২ হাজার পরিবার পানিবন্দি

বিপৎসীমার ওপরে তিস্তার পানি, গঙ্গাচড়ায় ২ হাজার পরিবার পানিবন্দি

ছেলের প্রেমে বাবার মৃত্যুর ১৮ দিন পর লাশ উত্তোলন

ছেলের প্রেমে বাবার মৃত্যুর ১৮ দিন পর লাশ উত্তোলন

হিলিতে আরও এক সপ্তাহের কঠোর বিধিনিষেধ

হিলিতে আরও এক সপ্তাহের কঠোর বিধিনিষেধ

হাসপাতালে নেননি স্বজনরা, করোনায় মারা গেলেন শিক্ষিকা

হাসপাতালে নেননি স্বজনরা, করোনায় মারা গেলেন শিক্ষিকা

পেঁয়াজের দাম কমেছে

পেঁয়াজের দাম কমেছে

আবু ত্ব-হার বন্ধু সিয়ামকে চাকরি থেকে বরখাস্ত

আবু ত্ব-হার বন্ধু সিয়ামকে চাকরি থেকে বরখাস্ত

তিস্তার পানি বিপৎসীমা ছুঁই ছুঁই

তিস্তার পানি বিপৎসীমা ছুঁই ছুঁই

বিধিনিষেধ না মেনে তাহিরপুরে আসছেন পর্যটকরা

বিধিনিষেধ না মেনে তাহিরপুরে আসছেন পর্যটকরা

আতঙ্ক নিয়ে যেতে হচ্ছে করোনা আক্রান্ত রাজস্ব কর্মকর্তার কাছে

আতঙ্ক নিয়ে যেতে হচ্ছে করোনা আক্রান্ত রাজস্ব কর্মকর্তার কাছে

বাঁশ বেঁধেও ঠেকানো যাচ্ছে না মানুষের চলাচল

বাঁশ বেঁধেও ঠেকানো যাচ্ছে না মানুষের চলাচল

মিটলো ভারতীয়দের দ্বন্দ্ব, আধাবেলা বন্ধের পর সচল হিলি স্থলবন্দর

মিটলো ভারতীয়দের দ্বন্দ্ব, আধাবেলা বন্ধের পর সচল হিলি স্থলবন্দর

দেড় বছর পর লালমনিরহাটে আ.লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা

দেড় বছর পর লালমনিরহাটে আ.লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা

সর্বশেষ

বেলকুচি উপজেলা ছাত্রলীগের উদ্যোগে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি

বেলকুচি উপজেলা ছাত্রলীগের উদ্যোগে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি

লকডাউন না মানায় ৮২ জনকে এক লাখ ৪০ হাজার টাকা জরিমানা

লকডাউন না মানায় ৮২ জনকে এক লাখ ৪০ হাজার টাকা জরিমানা

চীনা প্রকৌশলীকে খুঁজতে ২ ঘণ্টা দেরিতে ঘটনাস্থলে ফায়ার সার্ভিস

চীনা প্রকৌশলীকে খুঁজতে ২ ঘণ্টা দেরিতে ঘটনাস্থলে ফায়ার সার্ভিস

ভারতের লিড, টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালের ভাগ্যে কী আছে?

ভারতের লিড, টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালের ভাগ্যে কী আছে?

ভাসানচর থেকে পালানো ১৪ রোহিঙ্গা আটক

ভাসানচর থেকে পালানো ১৪ রোহিঙ্গা আটক

অ্যাস্ট্রাজেনেকার পর মডার্নার টিকা নিলেন ম্যার্কেল

অ্যাস্ট্রাজেনেকার পর মডার্নার টিকা নিলেন ম্যার্কেল

এবার নাটোরের সব পৌর এলাকায় বিধিনিষেধ

এবার নাটোরের সব পৌর এলাকায় বিধিনিষেধ

হোয়াটসঅ্যাপে শপ ফিচার আনছে ফেসবুক

হোয়াটসঅ্যাপে শপ ফিচার আনছে ফেসবুক

ট্রাকচাপায় ৩ মোটরসাইকেল আরোহী নিহত

ট্রাকচাপায় ৩ মোটরসাইকেল আরোহী নিহত

উদ্বাস্তুদের জন্য ‘বঙ্গভূমি’ রাজ্যের দাবি তুললেন বিজেপি বিধায়ক

উদ্বাস্তুদের জন্য ‘বঙ্গভূমি’ রাজ্যের দাবি তুললেন বিজেপি বিধায়ক

রাজশাহী বিভাগের করোনা পরিস্থিতি পর্যালোচনা বিষয়ে সভা

রাজশাহী বিভাগের করোনা পরিস্থিতি পর্যালোচনা বিষয়ে সভা

নদীতে পড়ে নিখোঁজ পদ্মা সেতু প্রকল্পের চীনা প্রকৌশলী

নদীতে পড়ে নিখোঁজ পদ্মা সেতু প্রকল্পের চীনা প্রকৌশলী

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

বিপৎসীমার ওপরে তিস্তার পানি, গঙ্গাচড়ায় ২ হাজার পরিবার পানিবন্দি

বিপৎসীমার ওপরে তিস্তার পানি, গঙ্গাচড়ায় ২ হাজার পরিবার পানিবন্দি

ছেলের প্রেমে বাবার মৃত্যুর ১৮ দিন পর লাশ উত্তোলন

ছেলের প্রেমে বাবার মৃত্যুর ১৮ দিন পর লাশ উত্তোলন

হিলিতে আরও এক সপ্তাহের কঠোর বিধিনিষেধ

হিলিতে আরও এক সপ্তাহের কঠোর বিধিনিষেধ

হাসপাতালে নেননি স্বজনরা, করোনায় মারা গেলেন শিক্ষিকা

হাসপাতালে নেননি স্বজনরা, করোনায় মারা গেলেন শিক্ষিকা

পেঁয়াজের দাম কমেছে

পেঁয়াজের দাম কমেছে

আবু ত্ব-হার বন্ধু সিয়ামকে চাকরি থেকে বরখাস্ত

আবু ত্ব-হার বন্ধু সিয়ামকে চাকরি থেকে বরখাস্ত

তিস্তার পানি বিপৎসীমা ছুঁই ছুঁই

তিস্তার পানি বিপৎসীমা ছুঁই ছুঁই

বিধিনিষেধ না মেনে তাহিরপুরে আসছেন পর্যটকরা

বিধিনিষেধ না মেনে তাহিরপুরে আসছেন পর্যটকরা

আতঙ্ক নিয়ে যেতে হচ্ছে করোনা আক্রান্ত রাজস্ব কর্মকর্তার কাছে

আতঙ্ক নিয়ে যেতে হচ্ছে করোনা আক্রান্ত রাজস্ব কর্মকর্তার কাছে

বাঁশ বেঁধেও ঠেকানো যাচ্ছে না মানুষের চলাচল

বাঁশ বেঁধেও ঠেকানো যাচ্ছে না মানুষের চলাচল

© 2021 Bangla Tribune