X
সোমবার, ২৫ অক্টোবর ২০২১, ৮ কার্তিক ১৪২৮

সেকশনস

গার্লফ্রেন্ডকে পাস করাতে নারী সেজে পরীক্ষাকেন্দ্রে

আপডেট : ০৯ আগস্ট ২০২১, ২০:৫২

আফ্রিকা মহাদেশের সেনেগালে গার্লফ্রেন্ডের হয়ে স্নাতক পরীক্ষা দেওয়ার জন্য নারী সেজে অংশগ্রহণের অভিযোগে এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

সেনেগালের ডিউরবেলে অবস্থিত গ্যাস্টন বার্গার সেন্ট-লুইস ইউনিভার্সিটির ২২ বছর বয়সী শিক্ষার্থী খাদিম এমবাউপ তিনটি স্নাতক পরীক্ষার পরিদর্শকদের বোকা বানাতে সক্ষম হন। তিনি ঐতিহ্যবাহী দীর্ঘ আলখেল্লা, মাথায় স্কার্ফম কানের দুল, ব্রা এমনকি মুখে মেকাপও লাগান। যেনও তাকে দেখতে তার ১৯ বছর বয়সী গার্লফ্রেন্ড গ্যাঙ্গু ডিউমের মতো দেখায়।

তিনদিন পরীক্ষায় অংশ নেওয়ার পর প্রেমিক যুগল ভাবছিলেন তাদের পরিকল্পনা সফল হতে যাচ্ছে তখনই ঘটে বিপত্তি। একজন পরিদর্শকের নজরে খাদিমের অস্বাভাবিকতা নজরে পড়ে। তখনই বেরিয়ে আসে তার সত্যিকার পরিচয়। ফাঁস হয়ে পড়ে ছদ্মবেশ।

পরীক্ষাকেন্দ্রে ডাকা হয় পুলিশকে এবং খাদিমের বিরুদ্ধে জালিয়াতির মামলা দায়ের করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদের গার্লফ্রেন্ডের কাছে পুলিশকে নিয়ে যান খাদিম। তিনি একটি ভাড়া করা হোটেলে অপেক্ষায় ছিলেন। সেখানে এই যুগলকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

খাদিম নিজের অপরাধের কথা স্বীকার করেন। তবে দাবি করেছেন, গ্যাঙ্গু ডিউমের প্রতি ভালোবাসার জন্যই এমন কাজ করেছেন তিনি।

/এএ/

সম্পর্কিত

টাইগ্রে অঞ্চলে নতুন অভিযান শুরু ইথিওপিয়ার

টাইগ্রে অঞ্চলে নতুন অভিযান শুরু ইথিওপিয়ার

ব্রিটিশ সতর্কতা জারির পর উগান্ডায় বোমা হামলা

ব্রিটিশ সতর্কতা জারির পর উগান্ডায় বোমা হামলা

সহকর্মীকে গুলি, পুলিশ সদস্যদের চিকিৎসা দিচ্ছেন না নার্সরা

সহকর্মীকে গুলি, পুলিশ সদস্যদের চিকিৎসা দিচ্ছেন না নার্সরা

সেই মিশনারিদের জন্য ১ কোটি ৭০ লাখ ডলার মুক্তিপণ দাবি

সেই মিশনারিদের জন্য ১ কোটি ৭০ লাখ ডলার মুক্তিপণ দাবি

টাইগ্রে অঞ্চলে নতুন অভিযান শুরু ইথিওপিয়ার

আপডেট : ২৫ অক্টোবর ২০২১, ০১:০৫

বিদ্রোহী নিয়ন্ত্রিত টাইগ্রে অঞ্চলের উত্তরাংশে দ্বিতীয়বারের মতো বিমান হামলা চালিয়েছে ইথিওপিয়ার সেনাবাহিনী। টাইগ্রের পশ্চিমাঞ্চলে বিমান হামলা চালানোর কিছুক্ষণ পরই দ্বিতীয় অভিযানের কথা জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে সেনাবাহিনী। এনিয়ে এক সপ্তাহের মধ্যে বিদ্রোহী নিয়ন্ত্রিত এলাকায় রবিবার সপ্তম ও অষ্টমবারের মতো হামলা চালানো ইথিওপিয়ার সেনাবাহিনী।

বিদ্রোহী গোষ্ঠী টাইগ্রে পিউপিল’স লিবারেশন ফ্রন্টকে (টিপিএলএফ) ইঙ্গিত করে ইথিওপিয়ার সরকারের মুখপাত্র সেলামাইত কাসা বলেন, ‘আজ সন্ত্রাসী গ্রুপ টিপিএলএফ এর প্রশিক্ষণ ও সামরিক কমান্ড হিসেবে ব্যবহৃত পশ্চিম ফ্রন্ট লক্ষ্য করে বিমান হামলা চালানো হয়েছে।’

প্রথম হামলার ঘোষণা দেওয়ার পর টিপিএলএফ এর মুখপাত্র গেটাচেও রেডা বলেন রবিবার কোনও বিমান হামলার বিষয়ে তিনি অবগত নন। তবে হামলার বিষয়টি  সহকর্মীদের কাছে যাচাই করবেন বলে জানান তিনি।

গত বছরের নভেম্বর থেকে টিপিএলএফ এর বিরুদ্ধে যুদ্ধ করছে প্রধানমন্ত্রী আবি আহমেদের সরকার। তবে গত জুনে বিদ্রোহীরা নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার পর থেকেন টাইগ্রে অঞ্চলে খুব কমই যুদ্ধ হয়েছে।

তবে গত সোমবার ইথিওপিয়ার বিমান বাহিনী টাইগ্রে অঞ্চলের রাজধানী মেকেল্লেতে দুইটি হামলা চালায়। জাতিসংঘ জানিয়েছে ওই হামলায় তিন শিশু নিহত এবং আরও বেশ কয়েক জন আহত হয়। ওই হামলার পর মেকেল্লেতে আরও তিনবার হামলা হয়। এছাড়া আগবে শহরে হামলা চালিয়ে সরকার দাবি করে টিপিএলএফ এর অস্ত্র গুদামে হামলা চালানো হয়েছে।

এসব হামলার পাশাপাশি টাইগ্রের দক্ষিণাঞ্চলে আমহারা এলাকায় তীব্র লড়াই চালানো হচ্ছে।

/জেজে/

সম্পর্কিত

ব্রিটিশ সতর্কতা জারির পর উগান্ডায় বোমা হামলা

ব্রিটিশ সতর্কতা জারির পর উগান্ডায় বোমা হামলা

সহকর্মীকে গুলি, পুলিশ সদস্যদের চিকিৎসা দিচ্ছেন না নার্সরা

সহকর্মীকে গুলি, পুলিশ সদস্যদের চিকিৎসা দিচ্ছেন না নার্সরা

সেই মিশনারিদের জন্য ১ কোটি ৭০ লাখ ডলার মুক্তিপণ দাবি

সেই মিশনারিদের জন্য ১ কোটি ৭০ লাখ ডলার মুক্তিপণ দাবি

প্রতিশোধের অঙ্গীকার নাইজেরিয়ার প্রেসিডেন্টের

প্রতিশোধের অঙ্গীকার নাইজেরিয়ার প্রেসিডেন্টের

ইসরায়েলের সঙ্গে আরব দেশের সম্পর্ক ছিন্ন করা উচিত: খামেনি

আপডেট : ২৫ অক্টোবর ২০২১, ০০:২৮

গত বছর যেসব আরব দেশ ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিক করেছে তারা পাপ করেছে বলে মন্তব্য করেছেন ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আলি খামেনি। রবিবার তিনি বলেন, এই সম্পর্ক ছিন্ন করা উচিত।

সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের উদ্যোগে ২০২০ সালে ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিক করার চুক্তি স্বাক্ষর করে সংযুক্ত আরব আমিরাত, বাহরাইন, সুদান এবং মরক্কো।

ইসরায়েলের দিকে ইঙ্গিত করে আলি খামেনি বলেন, ‘দুর্ভাগ্যজনকভাবে কয়েকটি সরকার বড় ভুল করেছে এবং নিপীড়ক ও দখলদার জায়নবাদী শাসকের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিক করে পাপ করেছে।’

ঈদে মিলাদুন্নবী উপলক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠিত ইরানের সর্বোচ্চ নেতা বলেন, ‘এটা ইসলামিক ঐক্যের বিরোধী কাজ, তাদের অবশ্যই এই পথ থেকে ফিরতে হবে আর এই বড় ভুলের প্রায়শ্চিত্ত করতে হবে।’

১৯৭৯ সালে ইসলামিক বিপ্লবের পর গত চার দশক ফিলিস্তিন ইস্যুর জোরালো রক্ষক হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠা করতে চায় ইরান। গত বছরের আগ পর্যন্ত কেবল মিসর ও জর্ডানই ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিক করা দুই দেশ ছিলো।

খামেনি বলেন, ‘মুসলিমদের ঐক্য অর্জন করা গেলে ফিলিস্তিনি প্রশ্ন নিশ্চিতভাবে সবচেয়ে ভালোভাবে সমাধান করা যাবে।’

গত মে মাসে ইসরায়েলকে কোনও দেশ নয় সন্ত্রাসের ঘাঁটি হিসেবে আখ্যা দেন খামেনি।

/জেজে/

সম্পর্কিত

‘ইরাকে সরকার গঠনে বিদেশি হস্তক্ষেপ গ্রহণযোগ্য নয়’

‘ইরাকে সরকার গঠনে বিদেশি হস্তক্ষেপ গ্রহণযোগ্য নয়’

আফগানিস্তানের প্রতিবেশীদের নিয়ে বৈঠক আহ্বান ইরানের

আফগানিস্তানের প্রতিবেশীদের নিয়ে বৈঠক আহ্বান ইরানের

ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ফলপ্রসূ আলোচনা হয়েছে: পুতিন

ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ফলপ্রসূ আলোচনা হয়েছে: পুতিন

‘ইরাকে সরকার গঠনে বিদেশি হস্তক্ষেপ গ্রহণযোগ্য নয়’

আপডেট : ২৪ অক্টোবর ২০২১, ২৩:৩১

ইরাকে সরকার গঠনে বিদেশি হস্তক্ষেপ গ্রহণযোগ্য নয় বলে মন্তব্য করেছেন দেশটির প্রভাবশালী রাজনীতিক মুক্তাদা আল সদর। রবিবার এক বিবৃতিতে এমন মন্তব্য করেন তিনি। এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে তুর্কি সংবাদমাধ্যম ইয়েনি সাফাক।

মুক্তাদা আল সদর বলেন, নতুন সরকার এমন প্রতিবেশীদের সঙ্গে সম্পর্ক জোরদার করতে চাইবে যারা ইরাকের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে হস্তক্ষেপ করেনি। আর হস্তক্ষেপকারী দেশগুলোর এমন আচরণ বন্ধে তাদের সঙ্গে উচ্চ পর্যায়ে আলোচনার উদ্যোগ নেওয়া হবে।

তিনি বলেন, বাগদাদ তার প্রতিবেশীদের ব্যাপারে হস্তক্ষেপ করবে না। ইরাকের ভূখণ্ড তাদের জন্য ক্ষতিকর ঘাঁটি হিসেবে ব্যবহৃত হবে না, বিশেষ করে যেসব দেশ ইরাকের সার্বভৌমত্বকে সম্মান করে।

এ মাসে অনুষ্ঠিত ইরাকের সাধারণ নির্বাচনে সদরের দল স্যারুন মুভমেন্ট পার্লামেন্টের ৩২৯টি আসনের মধ্যে ৭৩টিতে জয় পেয়েছে। ৩৮টি আসন নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে সুন্নি স্পিকার মোহাম্মদ আল-হালবৌসির তাকাদ্দুম জোট। এবারের নির্বাচনে ইরান সমর্থিত ফাতাহ জোটের ভরাডুবি ঘটেছে। মাত্র ১৭টি আসন পেয়েছে তারা।

দৃশ্যত নতুন সরকার গঠনের জন্য একটি কোয়ালিশনের প্রয়োজন হবে। সেক্ষেত্রে এটি চূড়ান্ত করতে কিছুটা সময় লাগতে পারে। তবে মুক্তাদা আল সদর নিজের এখনই সরকারে নেতৃত্ব দেওয়ার সুযোগ নেই। কেননা, গত নির্বাচনে তিনি প্রার্থী ছিলেন না।

/এমপি/

সম্পর্কিত

ইসরায়েলের সঙ্গে আরব দেশের সম্পর্ক ছিন্ন করা উচিত: খামেনি

ইসরায়েলের সঙ্গে আরব দেশের সম্পর্ক ছিন্ন করা উচিত: খামেনি

আফগানিস্তানের প্রতিবেশীদের নিয়ে বৈঠক আহ্বান ইরানের

আফগানিস্তানের প্রতিবেশীদের নিয়ে বৈঠক আহ্বান ইরানের

ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ফলপ্রসূ আলোচনা হয়েছে: পুতিন

ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ফলপ্রসূ আলোচনা হয়েছে: পুতিন

আফগানিস্তানের প্রতিবেশীদের নিয়ে বৈঠক আহ্বান ইরানের

আপডেট : ২৪ অক্টোবর ২০২১, ২২:২৮

আফগানিস্তানের প্রতিবেশী দেশগুলোকে নিয়ে বৈঠক আহ্বান করেছে ইরান। আগামী বুধবার এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

পাকিস্তান, চীন, তাজিকিস্তান, উজবেকিস্তান, তুর্কমেনিস্তান ও রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী এবং রাজনৈতিক প্রতিনিধিরা এতে অংশ নেওয়ার কথা রয়েছে। সেখানে তারা আফগানিস্তানে একটি অন্তর্ভুক্তিমূলক সরকার গঠনসহ অন্যান্য বিষয় নিয়ে আলোচনা করবেন। তবে এই বৈঠকে তালেবানকে আমন্ত্রণ জানানো হয়নি।

তালেবান মুখপাত্র জবিউল্লাহ মুজাহিদ জানিয়েছেন, ‘বৈঠকটির বিষয়ে আমরা অবগত আছি। এটি আমাদের প্রতিবেশীদের সঙ্গে সম্পর্কিত। সেখানে আমাদের আমন্ত্রণ জানানো হয়নি।’

এদিকে ভারতও আফগানিস্তান ইস্যুতে আলোচনায় পাকিস্তানসহ পাঁচ দেশকে আমন্ত্রণ জানিয়েছে। মূলত আফগানিস্তানের প্রতিবেশী দেশগুলোকে জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা পর্যায়ের এই বৈঠকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। এর মধ্যে পাকিস্তান ছাড়া বাকি দেশগুলো হচ্ছে চীন, রাশিয়া, ইরান ও তাজিকিস্তান। আগামী ১০ নভেম্বর ও ১১ নভেম্বর, দুই দিনের মধ্যে যে কোনও একদিন বৈঠকের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। সূত্র: টোলো নিউজ।

/এমপি/

সম্পর্কিত

ইসরায়েলের সঙ্গে আরব দেশের সম্পর্ক ছিন্ন করা উচিত: খামেনি

ইসরায়েলের সঙ্গে আরব দেশের সম্পর্ক ছিন্ন করা উচিত: খামেনি

‘ইরাকে সরকার গঠনে বিদেশি হস্তক্ষেপ গ্রহণযোগ্য নয়’

‘ইরাকে সরকার গঠনে বিদেশি হস্তক্ষেপ গ্রহণযোগ্য নয়’

ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ফলপ্রসূ আলোচনা হয়েছে: পুতিন

ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ফলপ্রসূ আলোচনা হয়েছে: পুতিন

কাজের বিনিময়ে গম কর্মসূচি চালু করলো তালেবান

কাজের বিনিময়ে গম কর্মসূচি চালু করলো তালেবান

ভারতে তৈরি অ্যারোমাথেরাপি স্প্রে থেকে ছড়াচ্ছে বিরল রোগ: যুক্তরাষ্ট্র

আপডেট : ২৪ অক্টোবর ২০২১, ২২:১৮

ভারত থেকে আমদানি করা অ্যারোমাথেরাপি স্পে থেকে বিরল জীবাণূ সংক্রমণ ছড়াচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রের কয়েকটি অঙ্গরাজ্যে। আক্রান্তদের মধ্যে দুজনের মৃত্যু হয়েছে। মার্কিন রোগ নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ কেন্দ্র (সিডিসি) শুক্রবার এই তথ্য জানিয়েছে। খোলা বাজারে এই স্প্রে বিক্রি বন্ধ করার সব পদক্ষেপ নিয়েছে মার্কিন প্রশাসন।

‘বুরখোলডেরিয়া সিউডোম্যালিয়াই’ নামে এই জীবাণু মূলত পাওয়া যায় দক্ষিণ এশিয়া ও উত্তর অস্ট্রেলিয়ায়। যুক্তরাষ্ট্রের স্থানীয় মানুষদের মধ্যে কখনোই এই রোগের সংক্রমণ দেখা যায়নি। প্রতি বছর যুক্তরাষ্ট্রে যেসব মানুষেরা এই রোগে আক্রান্ত হন, তাদের সবারই বিদেশ ভ্রমণের ইতিহাস রয়েছে। তবে এবার স্থানীয় সংক্রমণ ধরা পড়েছে। সবার ক্ষেত্রেই তাদের বাড়িতে এই স্প্রেটির সন্ধান পাওয়া গেছে।

কলকাতাভিত্তিক ভারতীয় সংবাদমাধ্যম আনন্দবাজার পত্রিকার খবরে বলা হয়েছে, জর্জিয়ায় যে আক্রান্তের সন্ধান মিলেছে, তার বাড়িতে রয়েছে ওই স্প্রে। এটি সাধারণের হাতের নাগালের মধ্যেই বিক্রি হচ্ছে বিভিন্ন বহুজাতিক পণ্য বিক্রেতা সংস্থার দোকানে। সেই কারণেই দ্রুত রোগ ছড়িয়ে পড়ার আতঙ্ক তৈরি হয়েছে।

প্রশাসন জানিয়েছে, এখন পর্যন্ত জর্জিয়া, টেক্সাস, কানসাস এবং মিনেসোটায় এই রোগ ছড়িয়ে পড়েছে। মৃত্যু হয়েছে দু’জনের, যার মধ্যে একটি শিশুও রয়েছে।

শুক্রবার ক্রেতা সুরক্ষা কমিশনের পক্ষ থেকে বলা হয়, বিক্রয়কারী দোকানটি এই স্প্রেটি প্রায় চার হাজার বোতল বিক্রি করে ফেলেছে। যে ক’জন এই রোগে আক্রান্ত হয়েছে, তাদের চার জনের মধ্যে এক জনের বাড়িতেই এই স্প্রের বোতল পাওয়া গেছে। বাকি তিন জনের বাড়িতে পাওয়া স্প্রেও পরীক্ষা করা হচ্ছে।

/এএ/

সম্পর্কিত

আটকেপড়া ভারতীয়দের উদ্ধারে মোদিকে চিঠি

আটকেপড়া ভারতীয়দের উদ্ধারে মোদিকে চিঠি

মহামারিতে মার্কিন বিলিয়নিয়ারদের মুনাফা ছাড়িয়েছে ২ লাখ কোটি ডলার

মহামারিতে মার্কিন বিলিয়নিয়ারদের মুনাফা ছাড়িয়েছে ২ লাখ কোটি ডলার

‘আফগানিস্তানের প্রভাব পড়তে পারে কাশ্মিরেও’

‘আফগানিস্তানের প্রভাব পড়তে পারে কাশ্মিরেও’

সর্বশেষসর্বাধিক
quiz

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

টাইগ্রে অঞ্চলে নতুন অভিযান শুরু ইথিওপিয়ার

টাইগ্রে অঞ্চলে নতুন অভিযান শুরু ইথিওপিয়ার

ব্রিটিশ সতর্কতা জারির পর উগান্ডায় বোমা হামলা

ব্রিটিশ সতর্কতা জারির পর উগান্ডায় বোমা হামলা

সহকর্মীকে গুলি, পুলিশ সদস্যদের চিকিৎসা দিচ্ছেন না নার্সরা

সহকর্মীকে গুলি, পুলিশ সদস্যদের চিকিৎসা দিচ্ছেন না নার্সরা

সেই মিশনারিদের জন্য ১ কোটি ৭০ লাখ ডলার মুক্তিপণ দাবি

সেই মিশনারিদের জন্য ১ কোটি ৭০ লাখ ডলার মুক্তিপণ দাবি

প্রতিশোধের অঙ্গীকার নাইজেরিয়ার প্রেসিডেন্টের

প্রতিশোধের অঙ্গীকার নাইজেরিয়ার প্রেসিডেন্টের

নাইজেরিয়ায় বন্দুকধারীদের হামলায় নিহত ৪৩

নাইজেরিয়ায় বন্দুকধারীদের হামলায় নিহত ৪৩

ঔপনিবেশিক অপরাধ, ফ্রান্সকে আন্তর্জাতিক আদালতের মুখোমুখি করার দাবি

ঔপনিবেশিক অপরাধ, ফ্রান্সকে আন্তর্জাতিক আদালতের মুখোমুখি করার দাবি

আমেরিকান মিশনারি অপহরণে হাইতির গ্যাং জড়িত: কর্মকর্তা

আমেরিকান মিশনারি অপহরণে হাইতির গ্যাং জড়িত: কর্মকর্তা

কঙ্গোতে নতুন করে ইবোলা শনাক্ত

কঙ্গোতে নতুন করে ইবোলা শনাক্ত

আফ্রিকার শিশুদের দেওয়া হবে ম্যালেরিয়ার টিকা

আফ্রিকার শিশুদের দেওয়া হবে ম্যালেরিয়ার টিকা

সর্বশেষ

পাকিস্তানি সমর্থকদের ওপর ভারতীয় সমর্থকদের হামলায় দুই ভাই আহত

পাকিস্তানি সমর্থকদের ওপর ভারতীয় সমর্থকদের হামলায় দুই ভাই আহত

পুকুরে নয়, ঝোপের ভেতর হনুমানের গদা দেখিয়ে দিলেন ইকবাল

পুকুরে নয়, ঝোপের ভেতর হনুমানের গদা দেখিয়ে দিলেন ইকবাল

টাইগ্রে অঞ্চলে নতুন অভিযান শুরু ইথিওপিয়ার

টাইগ্রে অঞ্চলে নতুন অভিযান শুরু ইথিওপিয়ার

ইসরায়েলের সঙ্গে আরব দেশের সম্পর্ক ছিন্ন করা উচিত: খামেনি

ইসরায়েলের সঙ্গে আরব দেশের সম্পর্ক ছিন্ন করা উচিত: খামেনি

ম্যানইউকে গোল বন্যায় ভাসালো লিভারপুল

ম্যানইউকে গোল বন্যায় ভাসালো লিভারপুল

© 2021 Bangla Tribune