X
শুক্রবার, ২২ অক্টোবর ২০২১, ৬ কার্তিক ১৪২৮

সেকশনস

আইভি রহমানের ১৭তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ

আপডেট : ২৪ আগস্ট ২০২১, ০০:০৫

আওয়ামী লীগের সাবেক মহিলা বিষয়ক সম্পাদক, নারীনেত্রী ও মুক্তিযোদ্ধা বেগম আইভি রহমানের ১৭তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ মঙ্গলবার (২৪ আগস্ট)। ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউতে আওয়ামী লীগের সন্ত্রাসবিরোধী সমাবেশে গ্রেনেড হামলায় গুরুতর আহত হওয়ার পর টানা তিন দিন মৃত্যুর সঙ্গে লড়ে ২৪ আগস্ট তিনি মারা যান।

প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিল্লুর রহমানের সহধর্মিণী বেগম আইভি রহমানের পুরো নাম জেবুন নাহার রহমান আইভি। আইভি রহমানের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে তার দল আওয়ামী লীগ, পরিবার এবং বিভিন্ন সামাজিক, রাজনৈতিক সংগঠন কর্মসূচি পালন করবে।

১৯৪৪ সালের ৭ জুলাই ভৈরবের সম্ভ্রান্ত পরিবারে তার জন্ম। তার পিতা জালাল উদ্দিন আহমেদ ঢাকা কলেজের অধ্যক্ষ ও মা হাসিনা বেগম একজন আদর্শ গৃহিণী ছিলেন। আইভি রহমান নবম শ্রেণিতে অধ্যয়নকালে ১৯৫৮ সালের ২৭ জুন জিল্লুর রহমানের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন। তার একমাত্র ছেলে নাজমুল হাসান পাপন বর্তমানে কিশোরগঞ্জ-৭ (ভৈরব-কুলিয়ারচর) আসনের সংসদ সদস্য ও বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি। আর দুই মেয়ে তানিয়া ও ময়না।

ছাত্রলীগের রাজনীতিতে সম্পৃক্ত হওয়ার মধ্য দিয়ে আইভি রহমান অসাম্প্রদায়িক ও গণতান্ত্রিক রাজনৈতিক বর্ণাঢ্য জীবন শুরু করেন। সদালাপী আইভি রহমান ১৯৬৯ সালে প্রতিষ্ঠিত মহিলা আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাতা সাংগঠনিক সম্পাদক ছিলেন। ১৯৭১ সালে তিনি ভারতে গিয়ে সশস্ত্র ট্রেনিং নিয়ে মুক্তিযুদ্ধে অংশ নেন। ১৯৭৮ সালে আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক নির্বাচিত হন। ২০০২ সালে দলের জাতীয় কাউন্সিলেও তাকে একই পদে নির্বাচিত করা হয় এবং মৃত্যুর আগ পর্যন্ত তিনি এই পদে দায়িত্ব পালন করেছেন। এর আগে ১৯৮০ সাল থেকে কয়েক বছর মহিলা আওয়ামী লীগের সভানেত্রীর দায়িত্ব পালন করেছেন। নারী অধিকার আদায়ের সংগ্রামে ও সমাজের অবহেলিত শিশু প্রতিবন্ধীদের কল্যাণেও আইভি রহমানের গৌরবোজ্জ্বল ভূমিকা ছিল অবিস্মরণীয়।

আইভী রহমানের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে স্বাস্থ্যবিধি মেনে বিভিন্ন সংগঠন কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। আওয়ামী লীগের কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে, সকাল ৯টায় বনানী কবরস্থানে তার কবর জিয়ারত, শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন, মিলাদ, দোয়া মাহফিল ও মোনাজাত। আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের নেতৃবৃন্দ, ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক এবং সহযোগী সংগঠনের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকরা যথাযথভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে অংশ নেবেন। এছাড়া পরিবারের পক্ষ থেকে মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হবে। 

/ইএইচএস/এমআর/এমওএফ/

সম্পর্কিত

মনোনয়ন ফরমে অ্যানালগই রয়ে গেলো আওয়ামী লীগ

মনোনয়ন ফরমে অ্যানালগই রয়ে গেলো আওয়ামী লীগ

সরকারও চায় দেশে একটি শক্তিশালী বিরোধী দল থাকুক: ওবায়দুল কাদের

সরকারও চায় দেশে একটি শক্তিশালী বিরোধী দল থাকুক: ওবায়দুল কাদের

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছে: ওবায়দুল কাদের

বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছে: ওবায়দুল কাদের

মনোনয়ন ফরমে অ্যানালগই রয়ে গেলো আওয়ামী লীগ

আপডেট : ২২ অক্টোবর ২০২১, ০০:১০
ডিজিটাল বাংলাদেশের রূপকার আওয়ামী লীগ। অথচ দলটির মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ ও জমা দেওয়া হচ্ছে অ্যানালগ পদ্ধতিতে। ডিজিটাল যুগে কেন ফরম হাতে হাতে জমা দেওয়া হচ্ছে তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন ক্ষমতাসীন দলের নেতাকর্মীরাও।

তৃতীয় ধাপে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন ফরম কেনার শেষ দিন ছিল বুধবার (২০ অক্টোবর)। ফরম তুলতে দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে সহস্রাধিক নেতাকর্মী তথা চেয়ারম্যান প্রত্যাশীরা ভিড় জমিয়েছিলেন আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ধানমণ্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে। 

সকাল থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত কার্যালয় ও আশপাশের এলাকায় ছিল উপচেপড়া ভিড় ও যানজট।

কক্সবাজারের চকোরিয়া থেকে ঢাকায় আসেন রিপন মিয়া। তিনি একজন চেয়ারম্যান প্রার্থীর ছোট ভাই। বুধবার বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘পদ্ধতিটা ডিজিটাল হলে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের ঢাকায় আসার দুর্ভোগ পোহাতে হতো না।’ মঙ্গলবার রাতে বাসে রওয়ানা হয়েছিলেন জানিয়ে তিনি বলেন, ‘সারারাত ঘুমাইনি। ভোরে ঢাকায় পৌঁছেই চলে আসি ধানমণ্ডি। এখানে এসে যে ভিড় দেখছি, তাতে মনে হচ্ছে আরও কয়েকঘণ্টা লেগে যেতে পারে।’

মাগুরা থেকে আসেন প্রিন্স নামের এক মনোনয়ন প্রত্যাশী। বুধবার দুপুরে তিনি বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘মনোনয়ন প্রত্যাশীরা মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে টাকা পাঠিয়ে ফরম কেনা ও ই-মেইলে জমা দিতে পারলে এত ভিড় হতো না। খরচ কমতো। কষ্টও কমতো।’

রংপুর থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশী সরদার বাচ্চু ঢাকায় আসেন ফরম তুলতে। ষাটোর্ধ্ব সরদার বলেন, ‘করোনাভাইরাসের প্রকোপ এখনও শেষ হয়নি। ধানমণ্ডির কার্যালয়ে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করতে হাজার হাজার নেতাকর্মী জড়ো হয়েছেন। শারীরিক দূরত্ব মানা হচ্ছে না। ডিজিটাল পদ্ধতি অনুসরণ করা হলে স্বাস্থ্যঝুঁকি থাকতো না।’

এ প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক কাজী জাফরউল্যাহ এবং দলের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা ইঞ্জিনিয়ার আবদুর সবুর দুজনই বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘আগামীতে মনোনয়ন ফরম অনলাইনে করার পরিকল্পনা রয়েছে আমাদের।’

/এফএ/

সম্পর্কিত

সরকারও চায় দেশে একটি শক্তিশালী বিরোধী দল থাকুক: ওবায়দুল কাদের

সরকারও চায় দেশে একটি শক্তিশালী বিরোধী দল থাকুক: ওবায়দুল কাদের

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছে: ওবায়দুল কাদের

বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছে: ওবায়দুল কাদের

‘শেখ হাসিনা সরকারের ওপর আল্লাহর রহমত আছে’

‘শেখ হাসিনা সরকারের ওপর আল্লাহর রহমত আছে’

২০ দলীয় জোট

নেতা কানাডায়, রাজনৈতিক কার্যালয়ে বেসরকারি শিক্ষক সমিতির অফিস

আপডেট : ২১ অক্টোবর ২০২১, ২১:১৪
বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের শরিক দল হিসেবে আছে সাম্যবাদী দল, বাংলাদেশ পিপলস পার্টি ও ডেমোক্রেটিক লীগ। কিন্তু এই তিন দলের সাংগঠনিক ও রাজনৈতিক কার্যক্রম প্রায় নেই বললেই চলে। এসব দলের মূল ব্যক্তিদের কেউ আছেন দেশের বাইরে, কেউবা নানান কারণে দীর্ঘদিন ধরে বাসা থেকেই বের হতে পারছেন না। জোট-রাজনীতির ওপর ক্ষোভ দেখাতে দলীয় অফিসমুখী হন না কেউ কেউ। এ কারণে তাদের অফিস থাকলেও ব্যবহারহীন অবস্থায় পড়ে আছে, কোনোটি আবার বন্ধ।
 
সাম্যবাদী দলের কার্যালয়ে প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির অফিস!
 
২০১২ সালের এপ্রিলে ১৮ দলীয় জোট গঠনের পর যে দুটি দলের যোগদানের ফলে ২০ দলীয় জোটের রূপ পায় বিএনপি-জোট। সেই দুটি একটি হলো সাম্যবাদী দল (একাংশ)। ২০১৪ সালের ৪ জুন সাম্যবাদী দলের (একাংশ) সাঈদ আহমদসহ পাঁচজন নেতা বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সঙ্গে সাক্ষাৎ করে তৎকালীন ১৯ দলীয় জোটে যোগদানের সিদ্ধান্ত জানায়। এরপর ২৮ জুন তারা যোগ দেন। ফলে ২০ দলীয় জোটে পরিণত হয় বিএনপি-জোট।
সাম্যবাদী দলের অফিস, ভেতরে পর্দার পেছনে শিক্ষক সমিতির অফিস

২০১৮ সালে একাদশ জাতীয় নির্বাচনের পর দলের মূল ব্যক্তি সাঈদ আহমেদ প্রথমে আমেরিকা ও পরে কানাডায় চলে যান। তার দল হয়ে যায় গন্তব্যহীন। তবে দলের পলিটব্যুরোর জ্যেষ্ঠ সদস্য নারায়ণগঞ্জের হানিফুল কবির বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘করোনা আসার আগে সাঈদ আহমেদ কানাডায় গেছেন। সেখানে ছেলে-মেয়ে, স্ত্রী-পরিবারের সঙ্গে আছেন তিনি। তার ভাইবোনেরা আমেরিকা-কানাডায় বসবাস করেন। নেতা আমাদের সঙ্গে ফোনে যোগাযোগ করেন।’

হানিফুল কবিরের দাবি, ঢাকার সেগুনবাগিচায় বাসদের অফিসের পাশে তাদের দলীয় কার্যালয়। সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়- ২৬ তোপখানা রোড, সেগুনবাগিচায় একটি দ্বিতল ভবনের দোতলায় সাম্যবাদী দলের নামে একটি রুম নেওয়া আছে। কক্ষের প্রবেশপথে দলের ব্যানার টাঙানো। ভেতরে প্রথম অংশে কয়েকটি চেয়ার ও টেবিল, পেছনে ঝোলানো কেন্দ্রীয় অধিবেশনের একটি ব্যানার। ফ্লোরে বিছিয়ে রাখা হয়েছে তোশক। আশেপাশে অন্য কক্ষগুলোতে কয়েকটি পরিবার বসবাস করে।

গত ১৭ অক্টোবর দুপুরে সেখানে গিয়ে পাওয়া যায় অন্য আরেকজন। নিজেকে শিক্ষক পরিচয় দিয়ে ভদ্রলোক জানান, সাম্যবাদী দলের এই কক্ষে বেসরকারি প্রাথমিক শিক্ষক সমিতি নামে এবং সংগঠনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের কার্যক্রম চলে।

এ প্রসঙ্গে দলটির পলিটব্যুরোর সদস্য কুমিল্লার কাজী মোস্তফা কামাল বাংলা ট্রিবিউনের কাছে দাবি করেন, সাম্যবাদী দলের সম্পাদক সাঈদ আহমেদ কানাডায় বসবাস করছেন। দলের বর্তমান ভারপ্রাপ্ত সম্পাদকের দায়িত্বে আছেন হোমিও চিকিৎসক নুরুল ইসলাম।

মোস্তফা কামালের অভিযোগ, সংগঠনের জন্য অর্থ সংগ্রহের শর্তে দলের দায়িত্ব নিলেও পরে উল্টো অর্থ আত্মসাৎ করে কানাডায় চলে গেছেন সাঈদ আহমেদ। সেখানে তিনি রাজনৈতিক আশ্রয় পাওয়ার চেষ্টা করছেন।

মোস্তফা কামালের দাবি, চলতি বছরের শুরুর দিকে সেগুনবাগিচায় অফিস নেওয়া হয়। এখানকার ভাড়ার কিছু অংশ তিনি নিজেও বহন করেছেন। আগে বিজয়নগরের একটি বাড়িতে সংগঠনের কার্যক্রম পরিচালনা হতো বলে নিজের দেওয়া তথ্যে যোগ করেন কামাল।
পুরান ঢাকার জনসন রোডে গরীবে নেওয়াজের অফিস, পিপলস পাটির অফিসও এখান থেকে পরিচালিত হয়
‘অফিস নেই, পিপলস লীগের কার্ড ঝুলিয়ে একজন আসেন’
অ্যাডভোকেট গরীবে নেওয়াজ নেতৃত্বাধীন বাংলাদেশ পিপলস লীগের কার্যক্রম নেই। ২০১৩-১৪ সালের পর থেকে অদ্যাবধি দলটির কোনও কার্যক্রম দেখা যায়নি। মহাসচিবের দায়িত্বে রয়েছেন অ্যাডভোকেট সৈয়দ মাহবুব হোসেন। পেশাগত কাজের সুবাদে চেয়ারম্যান গরীবে নেওয়াজের অফিসটিকেই পার্টি অফিস হিসেবে বলা হয়।জোটের তালিকায়ও রয়েছে এই ঠিকানা।

পুরান ঢাকা জর্জ কোর্ট এলাকায় জনসন রোডের ঘরোয়া হোটেলে ওপরে ‘পিপলস লীগের অফিস’র সরেজমিন চিত্র অবশ্য ভিন্ন।আশেপাশের অনেকেই জানান— পিপলস লীগ নামে কোনও দলের অফিস বর্তমানে সক্রিয় আছে এই ভবনে, এটা তাদের অজানা।

ভবনের নোটারি কাউন্সিলের অফিস সহকারী মিলন আহমেদ বলেন, ‘অনেকদিন আগে বাংলাদেশ পিপলস লীগ নামে একটি পার্টির অফিস এখানে ছিল। এখন মাঝেমাঝে একজন লোক এসে নোটারীর আশেপাশেই বসে। সপ্তাহ খানেক হলো তাকেও এখন আর দেখা যায় না। বতর্মানে এর কোনও কার্যক্রম এখানে আর নেই।’

৫১/১৩ ঠিকানায় এর ‘মতিঝিল ঘরোয়া হোটেল অ্যান্ড রেস্টুরেন্ট’ এরেএকই ভবনের কম্পিউটার অপারেটর মো. সজীব বলেন,‘আমি বিগত তিন বছর ধরে এখানে দোকান করছি। বাংলাদেশ পিপলস লীগ নামের কোনও পার্টির অফিস এখানে ছিল বলে জানা নেই। তবে মাঝেমধ্যে এখানে একজন বয়স্ক লোক আসেন, পিপলস লীগ নামে একটা কার্ড গলায় ঝুলিয়ে রাখতে দেখা যায়।’
পুরান ঢাকায় মতিঝিল ঘরোয়া হোটেলের ওপরে পিপলস পাটির কাজেও ব্যবহার হচ্ছে অ্যাডভোকেট গরীবে নেওয়াজের এই পেশাগত কার্যালয়
এ প্রসঙ্গে দলের চেয়ারম্যান গরীবে নেওয়াজ এ প্রতিবেককে বলেন,‘কোর্ট-কাচারিতে আমার অফিসটিই দলের অফিস। সেখান থেকে দলের কাজ হয়। আমি অনেকদিন ধরে অসুস্থ, বাসার বাইরে যেতে পারি না। আর দলের কার্যক্রম নেই। অন্যদেরও তো কোনও কার্যক্রম নেই।’

অ্যাডভোকেট গরীবে নেওয়াজ জানান, ২০১৪ সালে সবশেষ তার দলের কাউন্সিল হয়েছিল।
 
আরও পড়ুন:
 
 
 


‘ডেমোক্রেটিক লীগের অফিস দখল হয়ে গেছে’
অধ্যাপক মমিনুল হকের নেতৃত্বাধীন ডেমোক্রেটিক লীগের মহাসচিব পদে রয়েছেন সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি। ৬/১ এ নয়াপল্টনে দলটির কার্যালয় রয়েছে। যদিও সরেজমিনে গিয়ে এই ঠিকানাই কোনও অফিসই পাওয়া যায়নি।দেখা গেছে নতুন একটি ভবন। কয়েক বছর ধরে রাজনৈতিকভাবে কোনও কর্মসূচি পালন করতে দেখা যায়নি দলটিকে। এই দলটির প্রতিষ্ঠাতা অলি আহাদের মেয়ে ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা বিএনপির রাজনীতিতে যুক্ত। বর্তমানে তিনি দলটির মহিলা আসনে সংসদে প্রতিনিধিত্ব করছেন।

ডেমোক্রেটিক লীগের মহাসচিব সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি বলেন, ‘আমাদের দলের মূল অফিস ছিল ৬/১ নয়াপল্টন। কিন্তু সেটা ক্ষমতাসীন দলের নেতাকর্মীরা দখল করে রেখেছে। পরে আমরা ১১-পুরানা পল্টন, ইব্রাহিম ম্যানশনে অফিস নিয়েছি।’

সাইফুদ্দিন জানান, অধ্যাপক মমিনুল হকের মৃত্যুর পর বর্তমানে এহসানুল হক সেলিম ডেমোক্রেটিক লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

দলের কার্যক্রম সম্পর্কে মনি বলেন, ‘কোনও কার্যক্রম নেই। ঘরোয়াভাবে কাজ চলছে।’

তবে বিএনপির ওপর ক্ষোভ প্রকাশ করেন সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি, ‘বিএনপির নেত্রীর জন্য জেলে গেলেও ক্ষমতায় থাকলে দলটি জামায়াতকে মন্ত্রিত্ব দেয়, তাদের এক কাপ চাও খেতে দেয় না।’
/জেএইচ/

সম্পর্কিত

মনোনয়ন ফরমে অ্যানালগই রয়ে গেলো আওয়ামী লীগ

মনোনয়ন ফরমে অ্যানালগই রয়ে গেলো আওয়ামী লীগ

সব অপকর্মের জবাবদিহি করতে হবে সরকারকে: মির্জা ফখরুল

সব অপকর্মের জবাবদিহি করতে হবে সরকারকে: মির্জা ফখরুল

ছয় দিনে মামলা হয়েছে ৭২টি: সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন

ছয় দিনে মামলা হয়েছে ৭২টি: সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন

সরকারের পদত্যাগ চায় বামজোট

সরকারের পদত্যাগ চায় বামজোট

সব অপকর্মের জবাবদিহি করতে হবে সরকারকে: মির্জা ফখরুল

আপডেট : ২১ অক্টোবর ২০২১, ২০:১৮

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ‘সব অপকর্ম ও দুঃশাসনের জন্য বর্তমান সরকারকে জনগণের কাছে জবাবদিহি করতেই হবে।’

বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) রাতে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে ফখরুল এসব কথা বলেন।

বিবৃতিতে বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ও জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল কেন্দ্রীয় সংসদের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আকরামুল হাসান মিন্টুর জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে প্রেরণের ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

তিনি বলেন, ‘কর্তৃত্ববাদী সরকারের নানা অপকর্মের ছোবলে দেশ এখন ভয়াবহ নৈরাজ্যকর পরিস্থিতির সম্মুখীন। রাষ্ট্র পরিচালনায় সব ক্ষেত্রে চরম ব্যর্থ বর্তমান অবৈধ সরকার মানুষের ভোটের অধিকার এবং গণতান্ত্রিক অধিকার ভূলুণ্ঠিত করে বাকশালী কায়দায় বিরোধী দল ও মত দমনে এখন অধিক মাত্রায় বেপরোয়া। বিরামহীন গতিতে বিএনপি এবং এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনসহ বিরোধী দলগুলোর নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মিথ্যা ও কাল্পনিক কাহিনি তৈরির মাধ্যমে মামলা দিয়ে কারান্তরীণ করা হচ্ছে।’

/এসটিএস/এমএস/এমওএফ/

সম্পর্কিত

পূজামণ্ডপে হামলা সরকারি মদতে: মির্জা ফখরুল

পূজামণ্ডপে হামলা সরকারি মদতে: মির্জা ফখরুল

আ.লীগের গণতন্ত্র হচ্ছে সারা জীবন ক্ষমতায় থাকা: মির্জা ফখরুল

আ.লীগের গণতন্ত্র হচ্ছে সারা জীবন ক্ষমতায় থাকা: মির্জা ফখরুল

আপনারা দুঃস্বপ্ন দেখছেন, এই বুঝি বিএনপি এলো: ওবায়দুল কাদেরকে ফখরুল

আপনারা দুঃস্বপ্ন দেখছেন, এই বুঝি বিএনপি এলো: ওবায়দুল কাদেরকে ফখরুল

প্রশাসনের কর্মকর্তারা বেশি ক্ষমতাধর হয়ে আমলা লীগ হয়েছে: ফখরুল

প্রশাসনের কর্মকর্তারা বেশি ক্ষমতাধর হয়ে আমলা লীগ হয়েছে: ফখরুল

ছয় দিনে মামলা হয়েছে ৭২টি: সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন

আপডেট : ২১ অক্টোবর ২০২১, ১৯:৫৩

অক্টোবরের ১৩ তারিখ থেকে ১৮ অক্টোবর পর্যন্ত ৬ দিনে সারা দেশে ৭২টি মামলা হয়েছে বলে জানিয়েছে সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন। সংগঠনটির অভিযোগ, এসব মামলায় প্রায় ১০ হাজার আসামি করা হয়েছে এবং গ্রেফতার হয়েছে ৪৫০ জন। এর আগেও সংখ্যালঘুদের ওপরে সংঘটিত সহিংসতায় অনেক মামলা হয়েছে, কিন্তু কোনও মামলা নিষ্পত্তি হয়েছে— এমন কোনও তথ্য পাওয়া যায়নি।

বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) বিকালে রাজধানীর শাহবাগে জাতীয় জাদুঘরের সামনে ‘সাম্প্রতিক সময়ে হিন্দু সম্প্রদায়ের শারদীয় দুর্গা উৎসবে গুজব ছড়িয়ে দেশব্যাপী সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের ওপরে নির্যাতন, পুজামণ্ডপে হামলা, প্রতিমা ভাঙচুর, অগ্নিসংযোগ, লুটপাটের প্রতিবাদে’ সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলনের উদ্যোগে আয়োজিত সমাবেশে এ অভিযোগ করেন সংগঠনের নেতারা।

কর্মসূচিতে সংগঠনের পক্ষ থেকে কয়েকটি দাবি জানানো হয়েছে। এগুলোর মধ্যে উল্লেখযোগ্য দাবি হচ্ছে— সহিংসতায় আক্রান্ত সকলকে ন্যায্য ক্ষতিপূরণ দিতে হবে, সংখ্যালঘুদের ওপরে সহিংসতার সকল মামলা দ্রুত বিচার আইনে এবং সর্বোচ্চ ৬ মাসের মধ্যে নিষ্পত্তি করতে হবে। এছাড়া সংখ্যালঘু সুরক্ষা আইন প্রণয়ন এবং জাতীয় সংখ্যালঘু কমিশন গঠনের দাবিও করেছে সামাজিক আন্দোলন।

সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন মনে করে, সংখ্যালঘু জনগণের ওপরে সহিংসতার ঘটনাগুলোর সুষ্ঠু তদন্ত ও বিচার না হওয়ায় এ ধরনের ঘটনা বারবার ঘটছে, যা তাদেরকে ভীতি, নিরাপত্তাহীনতা ও অনিশ্চিয়তার দিকে ঠেলে দিচ্ছে।

সংগঠনের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য পঙ্কজ ভট্টাচার্যের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে সংহতি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন— সংগঠনের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য এস এম এ সবুর, আব্দুল মানুয়েম নেহেরু, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক রোবায়েত ফেরদৌস, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জহিরুল ইসলাম জহির, সাংগঠনিক সম্পাদক জাহাঙ্গির আলম সবুজ, সম্পাদকমণ্ডলীর সদস্য আব্দুর রাজ্জাক, শ্রমিক নেতা আব্দুল ওয়াহেদ, ঢাকা মহানগর সদস্য সচিব জাহাঙ্গীর আলম ফজলু, মুক্তিযুদ্ধ সংহতি পরিষদের এম এ রব,  ছাত্রনেতা গৌতম শীল প্রমুখ।

/এসটিএস/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

সরকারের পদত্যাগ চায় বামজোট

সরকারের পদত্যাগ চায় বামজোট

জাপা চেয়ারম্যানের সঙ্গে ডেমোক্র্যাসি ইন্টারন্যাশনাল প্রতিনিধি দলের সাক্ষাৎ

জাপা চেয়ারম্যানের সঙ্গে ডেমোক্র্যাসি ইন্টারন্যাশনাল প্রতিনিধি দলের সাক্ষাৎ

সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীর বিরুদ্ধে মামলার আবেদন, বাম দলগুলোর প্রতিবাদ

সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীর বিরুদ্ধে মামলার আবেদন, বাম দলগুলোর প্রতিবাদ

সরকারের পদত্যাগ চায় বামজোট

আপডেট : ২১ অক্টোবর ২০২১, ১৮:৩৭

পূজাকে কেন্দ্র করে সাম্প্রদায়িক হামলা-সন্ত্রাসের জন্য ব্যর্থতার দায় নিয়ে অবিলম্বে সরকারকে পদত্যাগ করার দাবি জানিয়েছে বাম গণতান্ত্রিক জোট। বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) বিকালে রাজধানীর পুরানা পল্টন মোড়ে আয়োজিত সমাবেশে জোটের নেতারা এ দাবি জানান।

সারাদেশে অব্যাহত সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাস প্রতিরোধ ও হামলাকারী এবং মদদদাতাদের গ্রেফতার-বিচার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি এবং গণতন্ত্র ভোটাধিকার প্রতিষ্ঠার’ দাবিতে বাম গণতান্ত্রিক জোটের উদ্যোগে দেশব্যাপী ‘সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাস প্রতিরোধ দিবস’ পালিত হয়েছে। কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে পুরানা পল্টনে সমাবেশ হয়।

জোটের নেতারা সমাবেশে বলেন, অতীতেও দেশবাসী ‘জজ মিয়া’ নাটক দেখেছে এবং শুনেছে। এবারও দেশবাসীর আশঙ্কা, শনাক্ত অভিযুক্তকারী ইকবালকে গ্রেফতারের আগেই নেশাগ্রস্ত, পাগল ইত্যাদি অভিধায় ভূষিত করে ঘটনাকে লঘু করার চক্রান্ত চলছে।

নেতাদের অভিযোগ, মুক্তিযুদ্ধের মধ্যদিয়ে প্রতিষ্ঠিত অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশে গত ৫০ বছরে শাসক শ্রেণির দলগুলো ক্ষমতায় থাকা ও ক্ষমতায় যাওয়ার নির্লজ্জ প্রতিযোগিতায় সাম্প্রদায়িকতাকে মদদ দিয়ে এসেছে। জনগণ যে সাম্প্রদায়িক অশুভ শক্তিকে পরাজিত করেছে, শাসক শ্রেণির প্রত্যক্ষ-পরোক্ষ আশ্রয়ে প্রশ্রয়ে তা পুরনায় মাথা চাড়া দিয়ে উঠেছে।

বাম গণতান্ত্রিক জোটের কেন্দ্রীয় সমন্বয়ক বজলুর রশীদ ফিরোজের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন— সিপিবির সাধারণ সম্পাদক শাহ আলম, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক, ইউসিএলবি’র সম্পাদক অধ্যাপক আব্দুস সাত্তার, বাসদ (মার্কসবাদী) কেন্দ্রীয় নির্বাহী ফোরামের সদস্য মানস নন্দী, ওয়ার্কার্স পার্টি (মার্কসবাদী) সাধারণ সম্পাদক ইকবাল কবীর জাহিদ, গণতান্ত্রিক বিপ্লবী পার্টির সাধারণ সম্পাদক মোশরেফা মিশু, গণসংহতি আন্দোলনের নেতা বাচ্চু ভুইয়া ও সমাজতান্ত্রিক আন্দোলনের নেতা রুবেল শিকদার।

/এসটিএস/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

ছয় দিনে মামলা হয়েছে ৭২টি: সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন

ছয় দিনে মামলা হয়েছে ৭২টি: সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন

জাপা চেয়ারম্যানের সঙ্গে ডেমোক্র্যাসি ইন্টারন্যাশনাল প্রতিনিধি দলের সাক্ষাৎ

জাপা চেয়ারম্যানের সঙ্গে ডেমোক্র্যাসি ইন্টারন্যাশনাল প্রতিনিধি দলের সাক্ষাৎ

সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীর বিরুদ্ধে মামলার আবেদন, বাম দলগুলোর প্রতিবাদ

সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীর বিরুদ্ধে মামলার আবেদন, বাম দলগুলোর প্রতিবাদ

সর্বশেষসর্বাধিক
quiz

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মনোনয়ন ফরমে অ্যানালগই রয়ে গেলো আওয়ামী লীগ

মনোনয়ন ফরমে অ্যানালগই রয়ে গেলো আওয়ামী লীগ

সরকারও চায় দেশে একটি শক্তিশালী বিরোধী দল থাকুক: ওবায়দুল কাদের

সরকারও চায় দেশে একটি শক্তিশালী বিরোধী দল থাকুক: ওবায়দুল কাদের

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছে: ওবায়দুল কাদের

বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছে: ওবায়দুল কাদের

‘শেখ হাসিনা সরকারের ওপর আল্লাহর রহমত আছে’

‘শেখ হাসিনা সরকারের ওপর আল্লাহর রহমত আছে’

দুর্গোৎসবকে কেন্দ্র করে এ ঘটনা খুবই অস্বস্তিকর: ১৪ দল

দুর্গোৎসবকে কেন্দ্র করে এ ঘটনা খুবই অস্বস্তিকর: ১৪ দল

সম্প্রীতি বিনষ্টের উসকানি ভারতের মুসলমানদেরও বিপদে ফেলেছে: ওবায়দুল কাদের

সম্প্রীতি বিনষ্টের উসকানি ভারতের মুসলমানদেরও বিপদে ফেলেছে: ওবায়দুল কাদের

রাজধানীতে আওয়ামী লীগের সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী মিছিল

রাজধানীতে আওয়ামী লীগের সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী মিছিল

মুক্তিযুদ্ধকে বাঁচাতে সাম্প্রদায়িক অপশক্তিকে পরাজিত করতে হবে: কাদের

মুক্তিযুদ্ধকে বাঁচাতে সাম্প্রদায়িক অপশক্তিকে পরাজিত করতে হবে: কাদের

শেখ রাসেলের ৫৮তম জন্মদিন সোমবার

শেখ রাসেলের ৫৮তম জন্মদিন সোমবার

সর্বশেষ

রোহিঙ্গাদের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে নিহত ৪

রোহিঙ্গাদের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে নিহত ৪

রেসিপি : কোরিয়ান বুলগগি

রেসিপি : কোরিয়ান বুলগগি

সফরকালে জাপানি গণমাধ্যমে বঙ্গবন্ধুর প্রশংসা

সফরকালে জাপানি গণমাধ্যমে বঙ্গবন্ধুর প্রশংসা

অনির্দিষ্টকাল রাস্তা আটকে বিক্ষোভ চলতে পারে না: ভারতের সুপ্রিম কোর্ট

অনির্দিষ্টকাল রাস্তা আটকে বিক্ষোভ চলতে পারে না: ভারতের সুপ্রিম কোর্ট

তালেবানের সঙ্গে বৈঠক ভারতের

তালেবানের সঙ্গে বৈঠক ভারতের

© 2021 Bangla Tribune