X
শনিবার, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ৩১ আশ্বিন ১৪২৮

সেকশনস

ঢাকা রিজেন্সিতে পর্যটন উৎসবে যত অফার

আপডেট : ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৮:০০

বিশ্ব পর্যটন দিবস উপলক্ষে ঢাকা রিজেন্সি হোটেল এন্ড রিসোর্ট দ্বিতীয়বারের মতো আয়োজন করতে যাচ্ছে ‘ঢাকা রিজেন্সি ট্যুরিজম ফেস্ট-২০২১’। ১০ দিন ব্যাপী চলবে এ উৎসব।

হোটেলের গ্রান্ডিওস রেস্তোরাঁয় স্বাস্থ্যবিধি মেনে উৎসবটি শুরু হতে যাচ্ছে ২৩ সেপ্টেম্বর। চলবে ২ অক্টোবর পর্যন্ত। উৎসবের অন্যতম আকর্ষণ হিসেবে থাকছে বাংলাদেশের আঞ্চলিক খাবার এবং ৪৪৪৪ টাকায় একটি বুফের মূল্যে তিনটি বুফে ডিনার উপভোগের সুযোগ। একইসঙ্গে থাকছে ৩৪৯৯ টাকায় একটি বুফের মূল্যে দুইটি বুফে ডিনার। এ ছাড়াও রয়েছে ১১,১১১ টাকায় পরিবারসহ ব্রেকফাস্ট, লাঞ্চ এবং বুফে ডিনার উপভোগ করতে ‘ফ্যামিলি স্টে’ অফার। ‘হ্যাপি স্টে’ অফারে শুধু রুম পাওয়া যাবে ৬৬৬৬ টাকায়।

টুরিজম ফেস্ট উপলক্ষে আকর্ষণীয় রুফটপ গার্ডেন রেস্তোরাঁ ‘গ্রিল অন দা স্কাইলাইন’-এ অতিথিদের জন্য থাকছে ১৫ শতাংশ ডিসকাউন্ট এবং রুফটপ-এর সুইমিং পুলে সিঙ্গেল ও কাপলদের জন্য রয়েছে ফ্রেশ জুস ও বিশেষ মূল্যে সেট- লাঞ্চ।

হোটেলটির লয়ালটি প্রোগ্রাম 'ঢাকা রিজেন্সি প্রিমিয়ার ক্লাব' মেম্বাররা পাচ্ছেন সবগুলো আউটলেটে মেম্বারশিপ সুবিধাসহ সকল অফারে অগ্রাধিকার।

বিস্তারিত জানতে: 01713332661

/এফএ/

সম্পর্কিত

ইউরিন ইনফেকশন : উপসর্গ, কারণ ও প্রতিকার

ইউরিন ইনফেকশন : উপসর্গ, কারণ ও প্রতিকার

রেসিপি : মজার স্ন্যাকস আলু চিলা

রেসিপি : মজার স্ন্যাকস আলু চিলা

পূজায় কাজলের বেনারসিটা কত পড়লো?

পূজায় কাজলের বেনারসিটা কত পড়লো?

বলিরেখা দূর করবে বার্লি চা

বলিরেখা দূর করবে বার্লি চা

ইউরিন ইনফেকশন : উপসর্গ, কারণ ও প্রতিকার

আপডেট : ১৫ অক্টোবর ২০২১, ১৩:২৭

অনিয়ন্ত্রিত খাদ্যাভ্যাস ও দূষণের কারণে ইউরিন ইনফেকশন এখন সাধারণ একটি সমস্যা। এর কারণ ও প্রতিকার জানতে আগে জেনে নেওয়া যাক কিডনির কাজ ও মূত্রতন্ত্র সম্পর্কে।

মানবদেহে প্রতিনিয়ত যে বর্জ্য তৈরি হয় তা মল-মূত্রের মাধ্যমে বেরিয়ে যায়। ইউরিন তথা প্রস্রাব মূলত কিডনি দিয়ে রক্তকে ছেঁকে তৈরি হয়। মানুষের দুটো কিডনি প্রতি মিনিটে ১ লিটারেরও বেশি রক্ত ছেঁকে নিচ্ছে। এই ছাঁকনের মাধ্যমে রক্তের ক্ষতিকর বর্জ্য যথা ক্রিয়েটিনিন, ইউরিক এসিড, অ্যামোনিয়া ইত্যাদি শরীর থেকে বেরিয়ে যায়। কোনও কারণে কিডনিতে ইনফেকশন হলে বা কিডনি রোগ হলে রক্তে ক্রিয়েটিনিন, ইউরিক এসিড এসব কিডনি ছাঁকতে পারে না।  

 

মূত্রতন্ত্র: মূলত কিডনি দিয়ে মূত্র তৈরি হলেও মূত্রতন্ত্র বলতে ৪টি অংশকে বোঝায়—

কিডনি: প্রতি মিনিটে ১২০০ মিলিলিটার রক্ত ছাঁকন হয়ে ১-২ মিলিলিটার ইউরিন তৈরি হয়।

ইউরেটার: এটি কিডনি থেকে মূত্রথলি পর্যন্ত একটা সরু নালিকা, যার মাধ্যমে কিডনিতে তৈরি হওয়া ইউরিন মূত্রথলিতে গিয়ে জমা হয়।

মূত্রথলি বা ব্লাডার: যেখানে মূত্র জমা হয়।

ইউরেথ্রা বা মূত্রনালী: মূত্রথলি থেকে যে পথ দিয়ে মূত্র বেরিয়ে যায়।

 

ইউরিন ইনফেকশন কী?

মূত্রতন্ত্রের ৪টি অংশের যেকোনও অংশ যদি জীবাণু দিয়ে সংক্রমিত হয়, তবে সেটাকে ইউরিনারি ট্র্যাক্ট ইনফেকশন বা ইউরিন ইনফেকশন বলে। এটি নারী-পুরুষ সবার হতে পারে। তবে নারীদের মধ্যে সংক্রমণের হার বেশি। কারণ তাদের মূত্রনালী পায়ুপথের খুব কাছাকাছি থাকে। তাই জীবাণু প্রবেশ করে ইনফেকশনের আশঙ্কা বাড়ায়।

 

ইউরিন ইনফেকশনের উপসর্গ

১। প্রস্রাবের সময় মূথনালীতে জ্বালাপোড়া করবে কিংবা ব্যথা করবে।

২। গায়ে গায়ে জ্বর থাকবে। কাঁপুনি দিয়ে জ্বর আসতে পারে। কিডনিতে ইনফেকশন হলে কাঁপুনি দিয়ে জ্বর আসবে। মূত্রতন্ত্রের অন্যান্য অংশে ইনফেকশন হলে জ্বর এলেও সাধারণত কাঁপুনি হয় না। অনেক নারী বলে থাকেন, তাদের দীর্ঘদিন গায়ে জ্বর লেগে থাকে। প্রস্রাবেও জ্বালাপোড়া করে। এ ক্ষেত্রে পরীক্ষা করলে দেখা যায়, তাদের ইউরিন ইনফেকশন রয়েছে।

৩। তলপেটে ব্যথা কিংবা প্রস্রাবের সময় ব্যথা হবে।

৪। প্রস্রাবের রঙ বদলে যাবে।

৫। কিছুক্ষণ পরপর প্রস্রাবের বেগ হবে এবং প্রস্রাব করার পরও মনে হবে আবার হবে।

৬। বমি বমি ভাব হবে। বমিও হতে পারে। খাওয়ার রুচি কমে যাবে। শরীর দুর্বল লাগবে।

৭। প্রস্রাবে অস্বাভাবিক দুর্গন্ধ পাওয়া যাবে।

 

ইউরিন ইনফেকশনের কারণ

ইউরিন ইনফেকশন অনেক কারণে হয়। মূল কারণ হচ্ছে মূত্রপথে ব্যাকটেরিয়ার সংক্রমণ। আরও যেসব কারণে হয়—

১। মলত্যাগের সময় পায়ুপথ থেকে ব্যাকটেরিয়া মূত্রনালীতে প্রবেশ করলে।

২। মলত্যাগের পর পায়ু পথে পেছন থেকে সামনের দিকে টয়লেট টিস্যু ব্যবহার করলে টিস্যুর সংস্পর্শে ব্যাকটেরিয়ার অনুপ্রবেশ করতে পারে।

৩। শারীরিক সম্পর্কের সময়ও সুরক্ষাবিধি মেনে না চললেও ব্যাকটেরিয়া প্রবেশ করতে পারে।

৪। কোষ্ঠকাঠিন্য থাকলে (বিশেষ করে শিশুদের) ইউরিন ইনফেকশনের ঝুঁকি বাড়ে।

৫। যাদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম, বা যাদের ডায়াবেটিস বা ক্যান্সার রয়েছে, অথবা যারা ক্যানসারের ওষুধ নিচ্ছেন তাদের ক্ষেত্রেও এ ইনফেকশনের ঝুঁকি বেশি।

৬। যারা হাই কমোড ব্যবহার করেন তাদেরও ঝুঁকি বেশি। কারণ কমোডের বসার জায়গায় লেগে থাকা ব্যাকটেরিয়া মূত্রনালীতে চলে আসতে পারে।

৭। যারা অনেকক্ষণ প্রস্রাব আটকে রাখেন, তাদের ক্ষেত্রে ব্যাকটেরিয়ার সংখ্যা বেড়ে গিয়ে ইউরিন ইনফেকশন হতে পারে।

৮। পানি কম পান করলে ইউরিন আউটপুট কম হয়। এক্ষেত্রেও ব্যাকটেরিয়া জমে ইনফেকশন হতে পারে।

৯। ক্যাথিটার লাগালেও ইউরিন ইনফেকশন হতে পারে। তা ছাড়া যাদের মূত্রপথে পাথর তৈরি হয় কিংবা প্রস্টেট গ্রন্থি বড় হয়, তাদেরও ইউরিন ইনফেকশনের ঝুঁকি বেশি।

১০। টাইট পোশাকের কারণে ঘাম থেকে আসা ব্যাকটেরিয়াও ইনফেকশন ঘটায়। এ ছাড়া নিয়মিত গোসল, পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা বজায় না রাখলেও এ রোগ হতে পারে।

১১। গর্ভবতী অবস্থায় ইনফেকশন দেখা দিতে পারে অনেকের।

১২। মাসিকের রাস্তায় সঠিকভাবে স্যানিটারি ন্যাপকিন ব্যবহার করতে না পারলে কিংবা মাসিকের বর্জ্য মূত্রপথের সংস্পর্শে এসেও ইনফেকশন ঘটাতে পারে।

 

প্রতিরোধ

১। টয়লেট টিস্যু ব্যবহারে সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে। পানি ব্যবহারের ক্ষেত্রেও সতর্ক থাকতে হবে।

২। দিনে ৩-৪ লিটার পানি পান করতে হবে। বেশি পানি পান করলে প্রস্রাব বাড়বে। তাতে জীবাণু শরীর থেকে বেরিয়ে যাবে। ইনফেকশনের ঝুঁকি কমবে।

৩। কুসুম গরম পানিতে গোসল করলে ইনফেকশনের ঝুঁকি অনেক কমে।

৪। যাদের বারবার ইনফেকশন হয়, তারা পুকুরের পানি বা অপরিষ্কার পানিতে গোসল করা থেকে বিরত থাকবেন।

৫। বেশিক্ষণ প্রস্রাব আটকে রাখা যাবে না।

৬। শারীরিক সম্পর্কের আগে-পরে প্রস্রাব করে নেওয়া উত্তম। এক্ষেত্রে পরিচ্ছন্নতা অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ।

৭। ঢিলেঢালা সুতির কাপড় পরতে হবে। টাইট জামা পরলে ইউরেথ্রা ও সেটার আশপাশ বেশি ঘামতে পারে।

৮। নিয়মিত গোসল করতে হবে এবং নারীদের ক্ষেত্রে মাসিকের সময় সঠিকভাবে স্যানিটারি ন্যাপকিন ব্যবহার করতে হবে।

৯। যাদের বার বার ইনফেকশন হয়, তারা ডাক্তারের পরামর্শে অ্যান্টিবায়োটিক খেতে পারেন।

১০। ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে রাখতে হবে।

১১। প্রচুর ভিটামিন এ, ই, সি সমৃদ্ধ খাবার খেতে হবে। টক ফল, আমড়া, পেয়ারা, শসা এবং প্রচুর শাকসবজি খেতে হবে।

 

ইউরিন ইনফেকশনের চিকিৎসা

যেহেতু ইউরিনারি ইনফেকশন একটা ব্যাকটেরিয়া সংক্রমণজনিত রোগ, তাই এটি দেখা দিলে দ্রুত ডাক্তার দেখাতে হবে। চিকিৎসায় দেরি করলে কিডনিতেও ছড়িয়ে পড়তে পারে ইনফেকশন।

ইউরিন মাইক্রোসকোপিক ও ইউরিন কালচার সেনসিটিভিটি পরীক্ষা করে অ্যান্টিবায়োটিক গ্রহণ করা আবশ্যক। বারবার ইনফেকশন হলে দীর্ঘমেয়াদি অ্যান্টিবায়োটিক লাগতে পারে।

 

লেখক: সেন্টার ফর ক্লিনিক্যাল এক্সিলেন্স এন্ড রিসার্চ-এর সিইও।

/এফএ/

সম্পর্কিত

রেসিপি : মজার স্ন্যাকস আলু চিলা

রেসিপি : মজার স্ন্যাকস আলু চিলা

পূজায় কাজলের বেনারসিটা কত পড়লো?

পূজায় কাজলের বেনারসিটা কত পড়লো?

বলিরেখা দূর করবে বার্লি চা

বলিরেখা দূর করবে বার্লি চা

সাজে বন্দনা, সাজে ভক্তি

সাজে বন্দনা, সাজে ভক্তি

রেসিপি : মজার স্ন্যাকস আলু চিলা

আপডেট : ১৫ অক্টোবর ২০২১, ০৯:০০

আলু চিলা তৈরিতে তেল লাগে খুব কম। তাই এটি স্বাস্থ্যকর স্ন্যাকস। শিশুর টিফিন বা বিকালের নাস্তায় সহজেই তৈরি করে নিতে পারেন মজার খাবারটি। চলুন জেনে নেওয়া যাক মজাদার আলু চিলার রেসিপি।

 

যা যা লাগবে (২ জনের জন্য)

  • ১টি বড় আলু
  • মাঝারি সাইজের একটি পেঁয়াজ
  • ১ চা চামচ রসুন বাটা
  • ১টি কাচা মরিচ
  • ১/২ চা চামচ জিরা গুঁড়া
  • ১/২ চা চামচ ধনিয়া গুঁড়া
  • ১/৪ চা চামচ কালো গোলমরিচের গুঁড়া
  • ১ টেবিল চামচ বেসন
  • ১ টেবিল চামচ কর্ন ফ্লাওয়ার
  • পরিমাণমতো লবণ
  • ১ টেবিল চামচ তেল

 

যেভাবে তৈরি করবেন

  • প্রথমেই আলু ধুয়ে খোসা ছাড়িয়ে নিন। এবার গ্রেট বা কুচি করে নিন। একটি পাত্রে অল্প পানি নিয়ে তাতে ১৫ মিনিট ভিজিয়ে রাখুন। এরপর অতিরিক্ত পানি ঝরিয়ে নিন। এতে আলুর অতিরিক্ত শর্করা চলে যাবে।
  • পেঁয়াজ ও মরিচ ধুয়ে কুচি করে নিন। আলুর পাত্রে পেঁয়াজ, মরিচ, রসুন, কালো গোলমরিচের গুঁড়া, ধনিয়া গুঁড়া, জিরা গুঁড়া, পরিমাণমতো লবণ, বেসন ও কর্নফ্লাওয়ার নিয়ে মিশ্রণ তৈরি করুন। চাইলে পছন্দমতো সবজিও গ্রেট করে যোগ করতে পারেন।
  • কড়াইয়ে যৎসামান্য তেল দিন। চুলা মৃদু আঁচে রাখুন। তৈরি করা মিশ্রণ থেকে অর্ধেক পরিমাণ নিয়ে পুরো কড়াইয়ে বৃত্তাকারে ছড়িয়ে দিন- অনেকটা চিতই পিঠার মতো। খেয়াল রাখুন যেন কোথাও কম বেশি না হয়। বৃত্তাকার এই পিঠার আকৃতিটাকেই বলে চিলা।
  • চাইলে অল্প অল্প করে ছোট আকৃতির চিলাও তৈরি করতে পারেন। এবার ছড়িয়ে রাখা চিলা বাদামি না হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করুন। হয়ে গেলে উঠিয়ে ফেলুন।
  • একটি প্লেটে চিলাটাকে কেটে টমেটো কেচাপ কিংবা পুদিনা চাটনি দিয়ে পরিবেশন করুন।
/এফএ/

সম্পর্কিত

রেসিপি : এলাচ নারিকেলের বরফি

রেসিপি : এলাচ নারিকেলের বরফি

রেসিপি : আলু জিরার রোল

রেসিপি : আলু জিরার রোল

রেসিপি : পুষ্টিতে ভরা সাউথ-ওয়েস্ট পাস্তা

রেসিপি : পুষ্টিতে ভরা সাউথ-ওয়েস্ট পাস্তা

বোয়াল মাছের কালিয়া

বোয়াল মাছের কালিয়া

পূজায় কাজলের বেনারসিটা কত পড়লো?

আপডেট : ১৪ অক্টোবর ২০২১, ২০:২০

দুর্গাপূজার দ্বিতীয় দিনেই গাঢ় নীল বেনারসি পরে চোখ ধাঁধিয়ে দিয়েছিলেন অনেকের। শাড়িটার নকশা করেছিলেন ভারতের নামকরা ডিজাইনার আনিতা ডোংরে। ব্যাকলেস ব্লাউজ ও অনবদ্য কিছু গহনা কাজলকে অকৃত্রিম পূজার সাজে সাজিয়েছিলেন স্টাইলিস্ট রাধিকা মেহরা।

 

শাড়ির নাম পানিতা বেনারসি। সিল্ক কাপড়ে হাতেবোনা শাড়িটিতে আছে ডোংরের তৈরি গোটা পাতার নকশা।

কাজল ছাড়াও ডোংরের নকশায় শাড়িটা পড়েছেন অন্য মডেলরাও

শাড়ির পরতে পরতে আছে মুক্তা ও জরির কাজ।

পূজার মধ্যমণি হতে এমন একখানা শাড়িই তো যথেষ্ট

একটি পানিতা শাড়ির দাম পড়বে ৮০ হাজার রুপি।

 

 

 

 

 

/এফএ/এমওএফ/

সম্পর্কিত

ইউরিন ইনফেকশন : উপসর্গ, কারণ ও প্রতিকার

ইউরিন ইনফেকশন : উপসর্গ, কারণ ও প্রতিকার

রেসিপি : মজার স্ন্যাকস আলু চিলা

রেসিপি : মজার স্ন্যাকস আলু চিলা

বলিরেখা দূর করবে বার্লি চা

বলিরেখা দূর করবে বার্লি চা

সাজে বন্দনা, সাজে ভক্তি

সাজে বন্দনা, সাজে ভক্তি

বলিরেখা দূর করবে বার্লি চা

আপডেট : ১৩ অক্টোবর ২০২১, ১৭:২৪

বয়স যতই হোক, মুখে বলিরেখা পড়া মানেই বুড়িয়ে যাওয়া। আর এটি দূর করতে বাজারে আছে হরেক ক্রিম। কিন্তু এ রেখা দূর করা যায় নিয়মিত স্বাস্থ্যকর একটি চা খেয়েও। বিউটি চায়ের রেসিপিটা এসেছে সুদূর কোরিয়া থেকে।

 

যেভাবে বানাবেন বার্লি টি

  • প্রথমে ২ টেবিল চামচ বার্লি টেলে নিন।
  • এরপর একটি প্যানে এক কাপ পানি নিন।
  • পানি ফোটা পর্যন্ত অপেক্ষা করুন। ফুটতে শুরু করলে তাতে বার্লি দিন।
  • অল্প আঁচে ৫ মিনিট চুলায় রাখুন।
  • পান করার আগে ছেঁকে নিন।

 

বার্লিতে থাকা অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট ত্বকের ফ্রি-র‌্যাডিকেলের বিরুদ্ধে সক্রিয় থাকে। মূলত ওই র‌্যাডিকেলের কারণেই ত্বকে বলিরেখা পড়ে।

বার্লিতে থাকা অ্যাজলেইক অ্যাসিড ব্রণ দূর করতে সাহায্য করে।

 

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

 

 

 

/এফএ/

সাজে বন্দনা, সাজে ভক্তি

আপডেট : ১২ অক্টোবর ২০২১, ১৯:০৯

রঙ, নতুন পোশাক আর ঢাকের বাদ্যে চলছে পূজা। সনাতন ধর্মাবলম্বীদের বড়সড় এ উৎসবে ফ্যাশনেও চোখ সবার। নতুন কী এলো এবারের পূজায়? কে কেমন সাজলো? দশমী পর্যন্ত কে কতবার সাজগোজ বদলাচ্ছে? শরতের সঙ্গে রঙটা মানাচ্ছে তো? উৎসব আড়ম্বরের যোগ্য সঙ্গী হতে ষোলআনা প্রস্তুত দেশীয় ফ্যাশনহাউসগুলো।

ফ্যাশন হাউসের পূজার কালেকশনে ফ্যাব্রিকটা পুরোপুরি ঋতুনির্ভর। দিনের ঘোরাঘুরির জন্য সুতি, লিনেন, খাদি, মখমল, হাফ সিল্ক ও অ্যান্ডি সিল্কের ব্যবহার দেখা যায় বেশি। আসন্ন শীতের কথা মাথায় রেখেও পার্টি-উপযোগী করে ডিজাইন করা হয়েছে রাতের জমকালো পোশাক। টিস্যু, অরগাঞ্জা, হাফসিল্ক, বাটারফ্লাই, মসলিনের মতো কাপড়সহ আরও রয়েছে সিল্ক, অ্যান্ডি সিল্ক, শিফন ও জর্জেটের কুর্তি, স্কার্ট, ফ্রক, কামিজ, গাউন, লেহেঙ্গা।

মডেল: তৃষা

পূজার পাঁচ দিন ছাড়াও উৎসবের পোশাকগুলো যেন পরা যায় বছরজুড়ে, তেমনটা ভেবেই পোশাকের থিম ও মোটিফ ঠিক করা হয়।

মন্দির, প্রতীক, দেবীর অলংকারে থিমে পোশাক ডিজাইন করেছে বিশ্বরঙ। বিশ্বরঙে দেখা যাবে দুর্গার থিমে বানানো মোটিফ। পোশাকেও থাকছে আশীর্বাদ, বাঙালিয়ানা ও ঐতিহ্যবাহী আলপনার ধাঁচ। পূজার পোশাকের নকশায় ফুটে ওঠে বাঙালির রূপকথা ও হাজার বছরের গল্প। জ্যামিতিক ফর্মের সমন্বয়ে মন্ত্র, আলপনার মোটিফ উপস্থাপন করা হয়েছে শাড়ি, পাঞ্জাবি, ধুতি, থ্রিপিস, ফতুয়া, শার্ট, ইত্যাদির মলিন সারফেসে। এ সংকলনে গরমের কথা মাথায় রেখে ব্যবহার করা হয়েছে আরামদায়ক সুতি, লিলেন, ভিসকস, ভয়েল, স্লাব ও শ্যামলে কাপড়। আভিজাত্য তুলে ধরতে থাকছে জয়সিল্ক, ডুপিয়ান, হাফ সিল্ক, জর্জেট, সিফন।

এবারও পূজা উপলক্ষে ফ্যাশন হাউজ সারা লাইফস্টাইল নিয়ে এসেছে আকর্ষণীয় পোশাকের নতুন কালেকশন। দেশীয় ঐতিহ্য ও সংস্কৃতির নানা উপাদানের মিশেলে সারা’র এবারের আয়োজনে থাকছে ডিজাইন ও কাপড়ের ভিন্নতা।

মেয়েদের কালেকশনে থাকছে কুর্তি, ফ্যাশন টপস, থ্রি পিস, এথনিক, লেডিস ক্যাজুয়াল শার্ট, লন থ্রি পিস, আনস্টিচ লন থ্রি পিস, পালাজ্জো এবং ডেনিম ওয়্যার। আরও থাকছে পার্টি ওয়্যার সিঙ্গেল পিস, পার্টি ওয়্যার, এক্সক্লুসিভ প্রিন্টেড শাড়ি, প্রিন্টেড থ্রি পিস, ফ্যাশন টপস এবং প্রিন্টেড কাফতান। ছেলেদের জন্য থাকছে পাঞ্জাবি, ফতুয়া, কাতুয়া, টি-শার্ট, ডেনিম ওয়্যার। পূজা আয়োজনে আরও থাকছে ক্যাজুয়াল শার্ট, ফরমাল শার্ট, পোলো শার্ট, চিনো প্যান্ট, ডেনিম প্যান্ট, পায়জামা। পাশাপাশি বাবা-ছেলের জন্য একই ডিজাইনের পাঞ্জাবিও থাকছে পূজার স্পেশাল কালেকশনে।

সারা লাইফস্টাইলের হেড অফ ডিজাইন শামিম রহমান বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘বরাবরের মতোই সারার আয়োজনে আমরা ডিজাইন, ফেব্রিক এবং সিজনাল কালার ভ্যারিয়েশন রেখেছি। উৎসব সব সময়ই রঙিন। সারার পোশাকের এই সমারোহ পূজার আনন্দকে আরও রঙিন করে তুলবে বলেই আমরা আশা করি।’

পূজায় সারার পোশাক

কথা হলো কাদম্বরী এক্সক্লিউসিভ বাই রজবী-এর স্বত্বাধিকারী রজবী তাসনীমের সঙ্গেও। তিনি জানান, ‘দেশীয় সব ধরনের শাড়িতে নিজস্ব নকশায় অর্থবহ ছবিকে জীবন্ত করা হয়েছে সুঁই-সুতোর কাজে। দুর্গাপূজা উপলক্ষে কাদম্বরী নিয়ে এসেছে ১০টিরও বেশি নতুন নকশা। দেবী ভজনে ফুলের অপরিহার্যতাকে প্রাধান্য দিয়ে পদ্ম-জবা ও অন্যান্য ফুলে মোটিফে জীবন্ত হয়েছে শাড়ির জমিন ও আঁচল। দেশি তাঁতের শাড়ির ওপর হাতের কাজই করি আমরা। নকশার ভেতর গল্প বলারও চেষ্টা থাকে। থাকে আরাধনা, ভক্তি ও প্রেমের। সাদাসহ সকল হালকা রঙের প্রাধান্য র‍য়েছে এবার।’

ছবি: কুমুদিনীর বসন

পূজার সাজসজ্জা আর প্রিপারেশন নিয়ে জানতে চাইলাম রাজধানীর তরুণী সৌমিকা ব্যানার্জির কাছে। জানালেন, ‘দুমাস আগে থেকেই শুরু হয়েছে পূজার প্রিপারেশন। সবচেয়ে প্রিয় উৎসব দুর্গাপূজা। নতুন করে সাজতে সারাবছর এর অপেক্ষাতেই থাকি। কেনা হয়েছে শাড়ি-চুড়ি, কাঠ ও পাথরের গয়না।’

কাদম্বরী এক্সক্লিউসিভ বাই রজবী

কুমুদিনীর বসন নামের একটি পেজের স্বত্বাধিকারী যারিন রওনক জানালেন, ‘এবার পূজায় যেহেতু গরম পড়ছে, তাই শাড়ি পরার ম্যাটেরিয়ালে কমফোর্টটাকে প্রাধান্য দেওয়া হয়েছে। গরমের কথা মাথায় রেখে সাদাসহ হালকা রঙে ফোকাস করা হয়েছে।’

/এফএ/
সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ইউরিন ইনফেকশন : উপসর্গ, কারণ ও প্রতিকার

ইউরিন ইনফেকশন : উপসর্গ, কারণ ও প্রতিকার

রেসিপি : মজার স্ন্যাকস আলু চিলা

রেসিপি : মজার স্ন্যাকস আলু চিলা

পূজায় কাজলের বেনারসিটা কত পড়লো?

পূজায় কাজলের বেনারসিটা কত পড়লো?

বলিরেখা দূর করবে বার্লি চা

বলিরেখা দূর করবে বার্লি চা

সাজে বন্দনা, সাজে ভক্তি

সাজে বন্দনা, সাজে ভক্তি

আর্থ্রাইটিসের চিকিৎসায় অবহেলা নয়

বিশ্ব আর্থ্রাইটিস দিবসআর্থ্রাইটিসের চিকিৎসায় অবহেলা নয়

ডায়াবেটিসের আগাম লক্ষণ

ডায়াবেটিসের আগাম লক্ষণ

পেট ফুলছে গ্যাসে? জেনে নিন কারণ ও চটজলদি সমাধান

পেট ফুলছে গ্যাসে? জেনে নিন কারণ ও চটজলদি সমাধান

রেসিপি : এলাচ নারিকেলের বরফি

রেসিপি : এলাচ নারিকেলের বরফি

অকালে বুড়ো বানাবে যে ৭টি খাবার

অকালে বুড়ো বানাবে যে ৭টি খাবার

সর্বশেষ

বাসা থেকে ডেকে নিয়ে এক ব্যক্তিকে হত্যা

বাসা থেকে ডেকে নিয়ে এক ব্যক্তিকে হত্যা

প্রতি আসনে লড়বেন ১১ শিক্ষার্থী

শুরু হচ্ছে গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষাপ্রতি আসনে লড়বেন ১১ শিক্ষার্থী

ভ্যাপসা গরমের পর বৃষ্টিতে স্বস্তি

ভ্যাপসা গরমের পর বৃষ্টিতে স্বস্তি

টিকার লাইনে দাঁড়ানো নারীর চেইন ছিনতাই, আটক ৫

টিকার লাইনে দাঁড়ানো নারীর চেইন ছিনতাই, আটক ৫

ওমান-পাপুয়া নিউগিনি যা, বাংলাদেশও তাই!

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপওমান-পাপুয়া নিউগিনি যা, বাংলাদেশও তাই!

© 2021 Bangla Tribune