X
সোমবার, ২১ জুন ২০২১, ৬ আষাঢ় ১৪২৮

সেকশনস

লিবিয়ায় জোট সরকারের পরিমার্জিত গঠনতন্ত্র ঘোষণা, শান্তির আশা

আপডেট : ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৬, ১৭:০৩
image

লিবিয়ার প্রেসিডেন্সিয়াল কাউন্সিল দেশটির নবগঠিত জোট সরকারের পরিমার্জিত গঠনতন্ত্র ঘোষণা করেছে। জাতিসংঘের পৃষ্ঠপোষকতায় গঠিত এই সরকার উত্তর আফ্রিকার যুদ্ধ বিধ্বস্ত এই রাষ্ট্রে শান্তি প্রতিষ্ঠা করবে বলে আশা করা হচ্ছে।

রবিবার কাউন্সিলের সদস্য ফাতি আল-মাজবারি এক টেলিভিশন বিবৃতিতে বলেন, ১৩ মন্ত্রী ও পাঁচ প্রতিমন্ত্রীর নামের একটি তালিকা লিবিয়ার সংসদে অনুমোদনের জন্য পাঠানো হয়েছে।

এর আগে আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত এই সংসদ প্রস্তাবিত ৩২ মন্ত্রীর তালিকা অতিদীর্ঘ বলে খারিজ করে। 

জোট সরকার শান্তি প্রতিষ্ঠা করবে বলে আশা করছে জাতিসংঘ

জাতিসংঘের পরিকল্পনা অনুযায়ী এই জোট সরকার ইসলামিক স্টেট জঙ্গি মোকাবেলায় সমর্থ হবে বলে আশা করা হচ্ছে। কাউন্সিল সদস্য মাজবারি বলেন, ‘নতুন এই সরকার সন্ত্রাসবাদ দমনের কৌশল নির্ধারণ করবে।’

তবে গত ডিসেম্বরে মরক্কোতে চুক্তি সাক্ষরিত হওয়ার পর থেকেই এই সরকার গঠন প্রক্রিয়া বিলম্বিত হয়ে আসছে। চুক্তি অনুমোদন করেন নয়টি বিরোধী দলের প্রতিনিধি ও প্রধানমন্ত্রীর নির্বাচিত প্রতিনিধি।  কাউন্সিলের প্রধান ফায়েজ সিরাজ রবিবার সাংবাদিকদের বলেন, ‘অভিজ্ঞতা, কর্মদক্ষতা, ভৌগলিক বিস্তার ও রাজনৈতিক অন্তর্দৃষ্টি নিয়েই লিবিয়ার সমাজ গড়ে উঠেছে।’

এ প্রসঙ্গে জাতিসংঘের দূত মারটিন কবলার প্রেসিডেন্ট কাউন্সিলকে অভিনন্দন জানিয়ে বলেছেন, ‘লিবিয়ার মানুষের শান্তির যাত্রা শুরু হলো।’  এদিকে, রাজনৈতিক বিশ্লেষক ও ত্রিপলি ভিত্তিক সাদেক ইন্সটিটিউটের প্রতিষ্ঠাতা আনাস এল গোমাতি বলেন, সাম্প্রতিক এই চুক্তি লিবিয়ায় শান্তি বয়ে আনবে, এমনটা না-ও হতে পারে.'

অর্থনৈতিক কারণেই চলছে যুদ্ধ - রাজনৈতিক বিশ্লেষক   

তিনি আল জাজিরাকে বলেন, “আমি নতুন এই পদক্ষেপ নিয়ে আশাবাদী। যদিও ‘সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ’ ধারণার পেছনেই লুকিয়ে রয়েছে লিবিয়ার গৃহযুদ্ধকে বিনষ্ট করার মত উপাদান। কৌশলগত যুদ্ধের মূল বিষয় অর্থনৈতিক, সেনা ও অন্যান্য সম্পদ সংক্রান্ত।”

তিনি আরও বলেন, ‘আলোচনার প্রক্রিয়া কিছু লোককে এক টেবিলে বসানো ছাড়া আর কিছুই করতে পারেনি।ফলে আমরা শান্তি সরকার পেয়েছি, শান্তি চুক্তি পাইনি।’      

প্রসঙ্গত, ইতোমধ্যে লিবিয়ার অরক্ষিত অবস্থার সুযোগ নিয়ে সিরতে নগরীর দখল নিয়েছে ইসলামিক স্টেট।ফলে সন্ত্রাসবাদ দমন লিবিয়ার শান্তি প্রতিষ্ঠার পথে প্রধানতম বিবেচ্য হয়ে উঠেছে। সূত্রঃ গার্ডিয়ান, আল জাজিরা

/ইউআর/বিএ/   

সম্পর্কিত

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রীকে মরক্কোর বাদশার শুভেচ্ছা

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রীকে মরক্কোর বাদশার শুভেচ্ছা

বেনামী পাথর থেকে হীরার খোঁজ!

বেনামী পাথর থেকে হীরার খোঁজ!

মিসরে মুসলিম ব্রাদারহুডের ১২ সদস্যের মৃত্যুদণ্ড বহাল

মিসরে মুসলিম ব্রাদারহুডের ১২ সদস্যের মৃত্যুদণ্ড বহাল

কুমিরের নাম ওসামা বিন লাদেন!

কুমিরের নাম ওসামা বিন লাদেন!

মরক্কোতে ইসরায়েলি মিশনকে ভবন ভাড়া দিতে চাচ্ছে না কেউ

মরক্কোতে ইসরায়েলি মিশনকে ভবন ভাড়া দিতে চাচ্ছে না কেউ

দুর্ভিক্ষের পরিস্থিতিতে ইথিওপিয়ার সাড়ে তিন লাখ মানুষ

দুর্ভিক্ষের পরিস্থিতিতে ইথিওপিয়ার সাড়ে তিন লাখ মানুষ

এক সঙ্গে দশ সন্তানের জন্ম

এক সঙ্গে দশ সন্তানের জন্ম

বোকো হারাম নেতা মারা গেছেন: প্রতিদ্বন্দ্বী গ্রুপ

বোকো হারাম নেতা মারা গেছেন: প্রতিদ্বন্দ্বী গ্রুপ

এইচআইভি পজিটিভ নারী ২১৬ দিন করোনা আক্রান্ত, ৩২ বার ধরন বদল

এইচআইভি পজিটিভ নারী ২১৬ দিন করোনা আক্রান্ত, ৩২ বার ধরন বদল

বুরকিনা ফাসোয় রাতভর তাণ্ডব, নিহত অন্তত ১৩০

বুরকিনা ফাসোয় রাতভর তাণ্ডব, নিহত অন্তত ১৩০

মালির সঙ্গে সামরিক সম্পর্ক বাতিল করলো ফ্রান্স

মালির সঙ্গে সামরিক সম্পর্ক বাতিল করলো ফ্রান্স

ডিআর কঙ্গোর দুই গ্রামে হামলা, নিহত অন্তত ৫০

ডিআর কঙ্গোর দুই গ্রামে হামলা, নিহত অন্তত ৫০

সর্বশেষ

৫ লাখ ছাড়ালো ব্রাজিলে করোনায় মৃতের সংখ্যা

৫ লাখ ছাড়ালো ব্রাজিলে করোনায় মৃতের সংখ্যা

রোহিঙ্গা ইস্যুতে পশ্চিমা বিশ্বকে শক্ত বার্তা দিয়েছে বাংলাদেশ

রোহিঙ্গা ইস্যুতে পশ্চিমা বিশ্বকে শক্ত বার্তা দিয়েছে বাংলাদেশ

জাতিসংঘে নিজের বিপক্ষেই ভোট দিয়েছে মিয়ানমার

জাতিসংঘে নিজের বিপক্ষেই ভোট দিয়েছে মিয়ানমার

যুক্তরাষ্ট্রে ঘূর্ণিঝড়ে গাড়ির সংঘর্ষে শিশুসহ নিহত ১০

যুক্তরাষ্ট্রে ঘূর্ণিঝড়ে গাড়ির সংঘর্ষে শিশুসহ নিহত ১০

ফেসবুকে দুই মন্ত্রীর 'দ্বন্দ্ব' বিষয়ক স্ট্যাটাস

ফেসবুকে দুই মন্ত্রীর 'দ্বন্দ্ব' বিষয়ক স্ট্যাটাস

সিডনিতে ‘ধূমকেতু’ ব্যান্ডের সফল কনসার্ট

সিডনিতে ‘ধূমকেতু’ ব্যান্ডের সফল কনসার্ট

মায়ের কপালে চুমু খেয়ে কলেজছাত্রের আত্মহত্যা

মায়ের কপালে চুমু খেয়ে কলেজছাত্রের আত্মহত্যা

ওয়েলসকে হারিয়ে ইতালি গ্রুপ সেরা

ওয়েলসকে হারিয়ে ইতালি গ্রুপ সেরা

কনওয়ের হাফসেঞ্চুরিতে শক্ত অবস্থানে কিউইরা

কনওয়ের হাফসেঞ্চুরিতে শক্ত অবস্থানে কিউইরা

‘রোহিঙ্গাদের মানবাধিকার রক্ষায় আন্তর্জাতিক মহল অগ্রগামী নয়’

‘রোহিঙ্গাদের মানবাধিকার রক্ষায় আন্তর্জাতিক মহল অগ্রগামী নয়’

কুষ্টিয়ায় দুই দিনে ১৪ জনের প্রাণ নিলো করোনা

কুষ্টিয়ায় দুই দিনে ১৪ জনের প্রাণ নিলো করোনা

মেক্সিকো-মার্কিন সীমান্ত শহরে বন্দুকধারীর গুলিতে নিহত ১৮

মেক্সিকো-মার্কিন সীমান্ত শহরে বন্দুকধারীর গুলিতে নিহত ১৮

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রীকে মরক্কোর বাদশার শুভেচ্ছা

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রীকে মরক্কোর বাদশার শুভেচ্ছা

বেনামী পাথর থেকে হীরার খোঁজ!

বেনামী পাথর থেকে হীরার খোঁজ!

মিসরে মুসলিম ব্রাদারহুডের ১২ সদস্যের মৃত্যুদণ্ড বহাল

মিসরে মুসলিম ব্রাদারহুডের ১২ সদস্যের মৃত্যুদণ্ড বহাল

কুমিরের নাম ওসামা বিন লাদেন!

কুমিরের নাম ওসামা বিন লাদেন!

মরক্কোতে ইসরায়েলি মিশনকে ভবন ভাড়া দিতে চাচ্ছে না কেউ

মরক্কোতে ইসরায়েলি মিশনকে ভবন ভাড়া দিতে চাচ্ছে না কেউ

দুর্ভিক্ষের পরিস্থিতিতে ইথিওপিয়ার সাড়ে তিন লাখ মানুষ

দুর্ভিক্ষের পরিস্থিতিতে ইথিওপিয়ার সাড়ে তিন লাখ মানুষ

এক সঙ্গে দশ সন্তানের জন্ম

এক সঙ্গে দশ সন্তানের জন্ম

বোকো হারাম নেতা মারা গেছেন: প্রতিদ্বন্দ্বী গ্রুপ

বোকো হারাম নেতা মারা গেছেন: প্রতিদ্বন্দ্বী গ্রুপ

এইচআইভি পজিটিভ নারী ২১৬ দিন করোনা আক্রান্ত, ৩২ বার ধরন বদল

এইচআইভি পজিটিভ নারী ২১৬ দিন করোনা আক্রান্ত, ৩২ বার ধরন বদল

বুরকিনা ফাসোয় রাতভর তাণ্ডব, নিহত অন্তত ১৩০

বুরকিনা ফাসোয় রাতভর তাণ্ডব, নিহত অন্তত ১৩০

© 2021 Bangla Tribune