X
শুক্রবার, ২৩ জুলাই ২০২১, ৮ শ্রাবণ ১৪২৮

সেকশনস

ডিআরইউ’র উদ্যোগে সাঁতার প্রশিক্ষণ কর্মসূচি শুরু

আপডেট : ০১ এপ্রিল ২০১৬, ১৮:১৪

ডিআরইউ’র উদ্যোগে সাঁতার প্রশিক্ষণ কর্মসূচি শুরুঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির (ডিআরইউ) ক্রীড়া উপকমিটির উদ্যোগে সংগঠনের সদস্য ও তাদের সন্তানদের সাঁতার প্রশিক্ষণ আজ শুক্রবার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়াম সংলগ্ন আইভি রহমান সুইমিং কমপ্লেক্সে শুরু হয়েছে। বাংলাদেশ অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশনের উপ-মহাসচিব আশিকুর রহমান মিকু প্রশিক্ষন কর্মসূচির উদ্বোধন করেন।
মাসব্যাপী এই প্রশিক্ষণ কর্মসূচি সাঁতার ফেডারেশনের প্রশিক্ষক ধনরঞ্জন দাসের তত্ত্বাবধানে চলবে। ডিআরইউ’র ১৫ জন সদস্য এবং সদস্যদের ৩৭ জন সন্তান এই প্রশিক্ষণে অংশগ্রহণ করছেন।
ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি জামাল উদ্দীনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে ক্রীড়া সম্পাদক মো. মজিবুর রহমান, কল্যাণ সম্পাদক মোহাম্মদ জিলানী মিলটন, কার্যনির্বাহী সদস্য শেখ মাহমুদ এ রিয়াত, ক্রীড়া উপ কমিটির সদস্য সচিব আমিনুল হক মল্লিক এবং সদস্য কাজী শহীদুল আলম, রায়হান আল মুঘনি ও এম এস সাহাব উপস্থিত ছিলেন।

/আরএম/এফআইআর/

সম্পর্কিত

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

করোনার মাঝেও অলিম্পিকের বর্ণাঢ্য উদ্বোধন

করোনার মাঝেও অলিম্পিকের বর্ণাঢ্য উদ্বোধন

বাংলাদেশকে হারিয়ে সমতায় ফিরলো জিম্বাবুয়ে

বাংলাদেশকে হারিয়ে সমতায় ফিরলো জিম্বাবুয়ে

বিপদে পড়ে গেছে বাংলাদেশ

বিপদে পড়ে গেছে বাংলাদেশ

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

আপডেট : ২৩ জুলাই ২০২১, ২২:৪৫

২০১৬ সালে খুলনাতে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সর্বশেষ টি-টোয়েন্টি হেরেছিল বাংলাদেশ। এরপর আরও ৫টি ম্যাচ খেললেও বাংলাদেশকে কোনওটিতেই হারাতে পারেনি জিম্বাবুয়ে। অবশেষে ৫ বছর পর লাল-সবুজ জার্সিধারীদের হারের তিক্ত স্বাদ দিলো তারা। শুক্রবার হারারেতে দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে ২৩ রানের জয় তুলে নিয়েছে স্বাগতিক জিম্বাবুয়ে। এমন হারের পর অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ জানিয়েছেন, পরিকল্পনা বাস্তবায়নের অভাবেই তাদেরকে এভাবে হারতে হয়েছে।

শুক্রবার শুরু থেকেই ক্রিকেটারদের ব্যাটিং অপ্রোচ ছিল প্রশ্নবোধক। ব্যাটসম্যানরা কী করতে চাইছেন? সেটিই বোঝা যাচ্ছিল না। তবে কি আত্মতুষ্টিতে ভুগছিল বাংলাদেশ? মাহমুদউল্লাহ অবশ্য সংবাদ মাধ্যমকে জানিয়েছেন, জয়ের ফোকাস নিয়েই মাঠে নেমেছিলেন তারা, ‘আমার মনে হয় না আমাদের ওই ধরনের মানসিকতা ছিল। আমরা আত্মতুষ্টিতে ভুগিনি। আমরা এই ম্যাচটিতেও জয়ের ফোকাসে ছিলাম, জয়ের জন্য প্রত্যয়ী ছিলাম। কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত আমরা আমাদের পরিকল্পনাগুলো বাস্তবায়ন করতে পারিনি। এই কারণে হয়তো আমরা ম্যাচটা হেরেছি।’ 

সাকিবের বিদায়ের পর যখন চাপ ছিল, ঠিক তখনই উঠিয়ে মারতে গিয়ে আউট হয়েছেন মাহমুদউল্লাহ। কিন্তু হারের পেছনে নিজের ব্যাটিং অপ্রোচে খারাপ কিছু দেখছেন না এই অধিনায়ক, ‘ব্যাটিং অপ্রোচ নিয়ে আমি হতাশ নই। আমি যেটা বললাম ১৬০ প্লাস রান চেজ করতে গেলে ঝুঁকি নিতেই হবে। শুরুতে আমরা উইকেট হারিয়ে ফেলেছিলাম, এই কারণে কিছুটা চাপে ছিলাম। যেটা গুরুত্বপূর্ণ ছিল ৫০  কিংবা ৩০ রানের জুটি। কিন্তু আমরা সেটি করতে পারিনি।’ এর পরেও পুরো দলকেই দারুণ ভারসাম্যপূর্ণ মনে করছেন টি-টোয়েন্টির অধিনায়ক, ‘আমার মনে হয় ব্যাটিং ও বোলিংয়ে আমাদের নানা জায়গায় নানা জনকে খেলানোর সুযোগ তৈরি হয়েছে। দলটা দারুণ ভারসাম্যপূর্ণ। আমাদের স্পিন বোলিং বিভাগ, পেস বোলিং বিভাগ, অলরাউন্ডার দেখেন-এইসব জায়গাগুলোতে দারুণ সব ক্রিকেটার রয়েছে। আজকে আমরা ভালো খেলতে পারিনি বলেই ফল আমাদের পক্ষে আসেনি।’

প্রথম ম্যাচে তিন নম্বরে ব্যাটিং করেছিলেন মাহমুদউল্লাহ নিজেই। তবে শুক্রবার তিন নম্বরে পাঠানো হয় মেহেদী হাসানকে। ১৯ বলে ১৫ রানের বেশি করতে পারেননি এই তরুণ। মেহেদীকে ওপরে ব্যাটিংয়ের সুযোগ দেওয়া প্রসঙ্গে মাহমুদউল্লাহর যুক্তি, ‘মেহেদী যেহেতু ঘরোয়া ক্রিকেট ওপরের দিকে ব্যাটিং করে। তাই ওকে সুযোগ দেওয়া হয়েছিল। দুর্ভাগ্যবশত ব্যাটিং গ্রুপে আমরা ক্লিক করতে পারিনি। কোন বড় জুটি আমরা করতে পারিনি। আমার কাছে মনে হয় শুরুটা সব সময় গুরুত্বপূর্ণ। যখন ১৬০ প্লাস স্কোর চেজ করতে হবে, আমরা সেই বিষয়টা করতে পারিনি বলেই ফল পক্ষে আসেনি।’

/আরআই/এফআইআর/

সম্পর্কিত

বাংলাদেশকে হারিয়ে সমতায় ফিরলো জিম্বাবুয়ে

বাংলাদেশকে হারিয়ে সমতায় ফিরলো জিম্বাবুয়ে

বিপদে পড়ে গেছে বাংলাদেশ

বিপদে পড়ে গেছে বাংলাদেশ

নাঈম-সৌম্যকে সাজঘরে পাঠালেন মুজারাবানি

নাঈম-সৌম্যকে সাজঘরে পাঠালেন মুজারাবানি

বাংলাদেশকে ১৬৭ রানের লক্ষ্য দিলো জিম্বাবুয়ে

বাংলাদেশকে ১৬৭ রানের লক্ষ্য দিলো জিম্বাবুয়ে

করোনার মাঝেও অলিম্পিকের বর্ণাঢ্য উদ্বোধন

আপডেট : ২৩ জুলাই ২০২১, ২১:১৩

করোনাভাইরাসের প্রকোপের কারণে গত বছর নির্ধারিত সময়ে হতে পারেনি টোকিও অলিম্পিক। এবার করোনাকে সামনে রেখে অনেক বাধাবিঘ্ন পেরিয়ে অবশেষে আলোর মুখ দেখেছে বৈশ্বিক এই ইভেন্ট। বেশ জাঁকজমকভাবেই পর্দা উঠেছে এই গেমসের। শুক্রবার টোকিও অলিম্পিক স্টেডিয়ামে আতশবাজিতে আকাশ রঙিন হওয়ার আগে স্বাগতিকদের নানান কসরতে ফুটে ওঠে করোনাকালীন উৎসব। 

করোনার কারণে স্টেডিয়ামে সাধারণ দর্শক ঢোকায় মানা ছিল এবার। মাত্র ১ হাজার ভিআইপি দর্শক কিংবা সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে জাপানি সম্রাট নারুহিতো উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে থাকতে পেরেছেন। অনুষ্ঠানে ছিলেন তোসুবাতা আর্সিয়া। তিনি মূলত একজন নার্স এবং বক্সার। পা-চালিত কল ট্রেডমিলে দৌড়েছেন আর্সিয়া, যার মাধ্যমে তুলে ধরা হয়েছে করোনার মহামারির সময়ে সারা বিশ্বের অ্যাথলেটদের ঘরে একাকী অনুশীলন চালিয়ে যাওয়া।

মার্চপাস্টে সবার আগে ছিল গ্রিস, যারা অলিম্পিকের প্রথম আয়োজক। এরপর অলিম্পিকের রিফিউজি দল এবং সবশেষে আসে স্বাগতিক জাপান দল। মাঝে বাংলাদেশও ছিল। সাঁতারু আরিফুল ইসলাম ও আর্চার দিয়া সিদ্দিকী যৌথভাবে লাল-সবুজ পতাকা হাতে নিয়ে সামনে থেকে স্টেডিয়াম প্রদক্ষিণ করেছেন। ছোট ছোট পতাকা নিয়ে তাদের পেছনে ছিলেন রোমান সানাসহ অন্যরা। অ্যাথলেটরা সবাই মাস্ক পরেই মাঠ প্রদক্ষিণ করেছেন।

মার্চপাস্ট শুরুর আগে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি যুক্ত হন শান্তিতে নোবেল জয়ী বাংলাদেশি মোহাম্মদ ইউনূস। তখন তার হাতে ছিল অলিম্পিকের লোগো সাত রিং সংবলিত অলিম্পিক লরেল। অলিম্পিক ইতিহাসে দ্বিতীয় ব্যক্তি হিসেবে এই অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন তিনি। 

এ গেমসে বাংলাদেশ থেকে চারটি ডিসিপ্লিনে ৬ জন ক্রীড়াবিদ অংশ নিচ্ছেন। এরইমধ্যে রোমান ও দিয়ার ইভেন্ট শুরু হয়েছে। আগামীকাল শনিবার নকআউট পর্বে তীর-ধনুক নিয়ে লড়াইয়ে নামবেন দুজন। মিক্সড ডাবলস ইভেন্টে। সব মিলিয়ে ২০৭টি দেশের ১১ হাজার ৩২৬ অ্যাথলেট ৩৩৯টি সোনার পদকের জন্য এবারের গেমসে অংশ নিচ্ছেন। ১৯৬৪ সালে প্রথম সামার অলিম্পিক আয়োজন করে জাপান। অনেক দিন পর আবারও তারা স্বাগতিক হলো। তবে আগেরবারের চেয়ে এবার যে ঢের বেশি চ্যালেঞ্জ অপেক্ষা করছে, সেটি সহজেই বুঝতে পারছে তারা। করোনার চোখ-রাঙানি উপেক্ষা করে এখন শেষটা ভালো হলেই হয়!

/টিএ/এফআইআর/এমওএফ/

সম্পর্কিত

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

বাংলাদেশকে হারিয়ে সমতায় ফিরলো জিম্বাবুয়ে

বাংলাদেশকে হারিয়ে সমতায় ফিরলো জিম্বাবুয়ে

বিপদে পড়ে গেছে বাংলাদেশ

বিপদে পড়ে গেছে বাংলাদেশ

নাঈম-সৌম্যকে সাজঘরে পাঠালেন মুজারাবানি

নাঈম-সৌম্যকে সাজঘরে পাঠালেন মুজারাবানি

বাংলাদেশকে হারিয়ে সমতায় ফিরলো জিম্বাবুয়ে

আপডেট : ২৩ জুলাই ২০২১, ২১:২২

হারারেতে শততম টি-টোয়েন্টি জয়ে রাঙালেও দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে ব্যর্থ হয়েছে বাংলাদেশ। সফরে এই প্রথমবার তাদের কোনও ম্যাচে হারালো জিম্বাবুয়ে। দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশ হেরেছে ২৩ রানে। পাশাপাশি জিম্বাবুয়ের কাছে ২০১৬ সালের পর টি-টোয়েন্টি হারের লজ্জা পেলো বাংলাদেশ।  সিরিজে স্বাগতিকরা সমতায় (১-১) ফেরায় শেষ ম্যাচটি হয়ে থাকলো সিরিজ নির্ধারণী।

দুই ওপেনার ফিরে গেলেও বাংলাদেশ মূলত বিপদে পড়ে যায় সাকিব ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের বিদায়ে। দলীয় ৪৫ ও ৫২ রানে বামহাতি ওয়েলিংটন মাসাকাদজার ঘূর্ণিতেই সাজঘরে ফেরেন দুজন। তাদের বিদায়ের পরই কক্ষপথ থেকে ছিটকে যায় সফরকারী দল। সোহানের বিদায়ে ৬ উইকেট পড়ে গেলে দলকে খাদের কিনারা থেকে টেনে তোলার একটা চেষ্টা দেখা গিয়েছিল অভিষিক্ত শামীম হোসেনের। এই তরুণ টিকে থাকলে একটা সম্ভাবনা ছিল। কিন্তু ১৩ বলে ২৯ রানের মিনি ঝড় তুলেই থামতে হয়েছে তাকে। জংউইর বলে মাসাকাদজাকে ক্যাচ দিয়ে ফিরেছেন তিনি।

এর পর চাপ বেড়ে যাওয়ায় সেখান থেকে আর মাথা তুলে দাঁড়াতে পারেনি বাংলাদেশ। সাইফউদ্দিন-আফিফ জুটিতে ক্ষীণ সম্ভাবনা যাও একটা ছিল কিন্তু পাহাড় সমান চাপে সেটি শেষ হয়েছে আফিফের ২৪ রানের বিদায়ে। এর পর সাইফউদ্দিনও ১৯ রানে ও তাসকিন ৫ রানে ফিরলে ১৯.৫ ওভারে বাংলাদেশের ইনিংস শেষ হয় ১৪৩ রানে। 

৪ ওভারে ২০ রানে ৩ উইকেট নিয়েছেন মাসাকাদজা। ৩.৫ ওভারে ৩১ রানে ৩টি নিয়েছেন লুক জংউইও। ২৪ রানে দুটি নিয়েছেন টেন্ডাই চাতারা, ২১ রানে সমসংখ্যক শিকার ব্লেসিং মুজারাবানিরও। 

জিম্বাবুয়ের দেওয়া ১৬৭ রানের লক্ষ্যে শুরু থেকেই নড়বড়ে ছিল বাংলাদেশের ব্যাটিং। প্রথম ম্যাচ জিততে দুই ওপেনার সৌম্য সরকার ও মোহাম্মদ নাঈম অসাধারণ ভূমিকা রাখলেও এই ম্যাচে হতাশ করেন দুজনেই। ১৭ রানে ফিরে যান তারা। 

দ্রুত দুই উইটেট পড়ে যাওয়ায় রান তোলায় মনোযোগী হয়েছিলেন মেহেদী ও সাকিব। চেষ্টাও করেছিলেন দুজন। পাওয়ার প্লেতে পর্যাপ্ত রান তুলে দিলেও সাকিব সপ্তম ওভারে বিপদ ডেকে আনেন বেশি বাইরে এসে খেলতে গিয়ে। বামহাতি স্পিনার মাসাকাদজার বলে ক্যাচ তুলে দেন কভারে। সাকিব বিদায় নেন ১০ বলে ১২ রানে। 

এর পর শট খেলার লোভ সামলাতে না পেরে বিপদটা আরও বাড়িয়ে দিয়ে যান মাহমুদউল্লাহ। মাসাকাদজার বলে ক্যাচ উঠিয়ে দিয়েছেন লং অনে। টি-টোয়েন্টি অধিনায়কের সংগ্রহ ছিল মাত্র ৪ রান। 

গুরুত্বপূর্ণ সময়ে অভিজ্ঞ দুই ক্রিকেটারের বিদায়ের পর জয়ের পথটা আরও কঠিন করে দিয়ে যান মেহেদী। সেই মাসাকাদজার স্পিনে শট খেলার তাড়নায় তিনি ক্যাচ উঠিয়ে দিয়েছেন লং অফে। মূলত ঝটপট এই তিন উইকেট পতনই পুরোপুরি সর্বনাশ ডেকে আনে পরে। 

টি-টোয়েন্টিতে যে সোহানকে ঘিরে প্রত্যাশা ছিল তার ছিটেফোঁটাও দেখাতে পারলেন না দলের বিপদের সময়। ডিপ পয়েন্টে তিনিও ক্যাচ তুলে ফিরেছেন মাত্র ৯ রানে।

শুরুতে জিম্বাবুয়ে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়ে সংগ্রহ করে ৬ উইকেটে ১৬৬ রান। আগের ম্যাচে দেড়শো ছাড়ানো ইনিংস খেললেও এই ম্যাচে তারা চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়তে পেরেছে মূলত ওয়েসলে মেধেভেরের আগ্রাসী ব্যাটিংয়ে। তার ৫৭ বলে করা ৭৩ রানের ম্যাচসেরা ইনিংসই গড়ে দেয় বড় স্কোরের ভিত। তাতে ছিল ৫টি চার ও ৩টি ছয়। শেষ দিকে রায়ান বার্ল ১৯ বলে ৩৪ রানের ঝড়ো গতিতে ব্যাট চালালে সমৃদ্ধ হয় তাদের স্কোরবোর্ড।

/এফআইআর/

সম্পর্কিত

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

বিপদে পড়ে গেছে বাংলাদেশ

বিপদে পড়ে গেছে বাংলাদেশ

নাঈম-সৌম্যকে সাজঘরে পাঠালেন মুজারাবানি

নাঈম-সৌম্যকে সাজঘরে পাঠালেন মুজারাবানি

বাংলাদেশকে ১৬৭ রানের লক্ষ্য দিলো জিম্বাবুয়ে

বাংলাদেশকে ১৬৭ রানের লক্ষ্য দিলো জিম্বাবুয়ে

বিপদে পড়ে গেছে বাংলাদেশ

আপডেট : ২৩ জুলাই ২০২১, ১৯:৩৫

শততম টি-টোয়েন্টি জয়ে অনবদ্য ভূমিকা ছিল দুই ওপেনার সৌম্য সরকার ও মোহাম্মদ নাঈমের। কিন্তু দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে হতাশ করলেন দুজনেই। ১৬৭ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে ১৭ রানেই ফিরে গেছেন দু’জন। এর পর আরও ৪ উইকেট পতনে বিপদেই পড়ে গেছে সফরকারীরা। সিরিজ জয়ের লক্ষ্যে বাংলাদেশের সংগ্রহ এখন ১৩.১ ওভারে ৬ উইকেটে ৮৩ রান। 

আগের ম্যাচে অসাধারণ ছন্দে থাকলেও এই ম্যাচে ইনিংস বড় করতে পারলেন না নাঈম। ব্লেসিং মুজারাবানির তৃতীয় ওভারের প্রথম বলেই তিনি বোল্ড হয়ে ফিরেছেন ৫ রানে। একই ওভারের চতুর্থ বলে মুজারাবানির জোড়া আঘাতের শিকার হন সৌম্য সরকার। শট খেলতে গিয়ে কভারে ক্যাচ উঠিয়ে তিনি ফিরেছেন মাত্র ৮ রানে। 

দ্রুত দুই উইটেট পড়ে যাওয়া রান তোলায় মনোযোগী হয়েছিলেন মেহেদী ও সাকিব। চেষ্টাও করেছিলেন দুজন। পাওয়ার প্লেতে পর্যাপ্ত রান তুলে দিলেও সাকিব সপ্তম ওভারে বিপদ ডেকে আনেন বেশি বাইরে এসে খেলতে গিয়ে। বামহাতি স্পিনার মাসাকাদজার বলে ক্যাচ তুলে দেন কভারে। সাকিব বিদায় নেন ১০ বলে ১২ রানে। 

এর পর শট খেলার লোভ সামলাতে না পেরে বিপদটা আরও বাড়িয়ে দিয়ে যান মাহমুদউল্লাহ। মাসাকাদজার বলে ক্যাচ উঠিয়ে দিয়েছেন লং অনে। টি-টোয়েন্টি অধিনায়কের সংগ্রহ ছিল মাত্র ৪ রান। গুরুত্বপূর্ণ সময়ে অভিজ্ঞ দুই ক্রিকেটারের বিদায়ে থিতু হবেন কি, উল্টো দলকে শঙ্কায় ফেলে দেন মেহেদী। সেই মাসাকাদজার স্পিনে শট খেলার তাড়নায় মেহেদী (১৫) ক্যাচ উঠিয়ে দিয়েছেন লং অফে। টি-টোয়েন্টিতে যে সোহানকে ঘিরে প্রত্যাশা ছিল তার ছিটেফোঁটাও দেখাতে পারলেন না দলের বিপদের সময়। ডিপ পয়েন্টে তিনিও ক্যাচ তুলে ফিরেছেন মাত্র ৯ রানে।

ক্রিজে আছেন আফিফ (১৬) ও শামীম (৫)।

এর আগে জিম্বাবুয়ে টস জিতে ৬ উইকেটে ১৬৬ রান সংগ্রহ করে। যার পুরো কৃতিত্ব ওয়েসলি মেধেভেরের ৫৭ বলে করা ৭৩ রান! 

/এফআইআর/  

সম্পর্কিত

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

বাংলাদেশকে হারিয়ে সমতায় ফিরলো জিম্বাবুয়ে

বাংলাদেশকে হারিয়ে সমতায় ফিরলো জিম্বাবুয়ে

নাঈম-সৌম্যকে সাজঘরে পাঠালেন মুজারাবানি

নাঈম-সৌম্যকে সাজঘরে পাঠালেন মুজারাবানি

বাংলাদেশকে ১৬৭ রানের লক্ষ্য দিলো জিম্বাবুয়ে

বাংলাদেশকে ১৬৭ রানের লক্ষ্য দিলো জিম্বাবুয়ে

নাঈম-সৌম্যকে সাজঘরে পাঠালেন মুজারাবানি

আপডেট : ২৩ জুলাই ২০২১, ১৮:৫২

শততম টি-টোয়েন্টি জয়ে অনবদ্য ভূমিকা ছিল দুই ওপেনার সৌম্য সরকার ও মোহাম্মদ নাঈমের। কিন্তু দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে হতাশ করলেন দুজনেই। ১৬৭ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে ১৭ রানেই ফিরেগেছেন দুজন। সিরিজ জয়ের লক্ষ্যে বাংলাদেশের সংগ্রহ এখন ৫ ওভারে ২ উইকেটে ৩২ রান। 

আগের ম্যাচে অসাধারণ ছন্দে থাকলেও এই ম্যাচে ইনিংস বড় করতে পারলেন না নাঈম। ব্লেসিং মুজারাবানির তৃতীয় ওভারের প্রথম বলেই তিনি বোল্ড হয়ে ফিরেছেন ৫ রানে। একই ওভারের চতুর্থ বলে মুজারাবানির জোড়া আঘাতের শিকার হন সৌম্য সরকার। শট খেলতে গিয়ে কভারে ক্যাচ উঠিয়ে তিনি ফিরেছেন মাত্র ৮ রানে। ক্রিজে আছেন মেহেদী (৭) ও সাকিব (৫)।

এর আগে জিম্বাবুয়ে টস জিতে ৬ উইকেটে ১৬৬ রান সংগ্রহ করে জিম্বাবুয়ে। যার পুরো কৃতিত্ব ওয়েসলি মেধেভেরের ৫৭ বলে করা ৭৩ রান! 

/এফআইআর/  

সম্পর্কিত

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

বাংলাদেশকে হারিয়ে সমতায় ফিরলো জিম্বাবুয়ে

বাংলাদেশকে হারিয়ে সমতায় ফিরলো জিম্বাবুয়ে

বিপদে পড়ে গেছে বাংলাদেশ

বিপদে পড়ে গেছে বাংলাদেশ

বাংলাদেশকে ১৬৭ রানের লক্ষ্য দিলো জিম্বাবুয়ে

বাংলাদেশকে ১৬৭ রানের লক্ষ্য দিলো জিম্বাবুয়ে

সর্বশেষ

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

মাছের ড্রামের ভেতরে লুকিয়ে বাড়ি যাচ্ছিলেন তারা

মাছের ড্রামের ভেতরে লুকিয়ে বাড়ি যাচ্ছিলেন তারা

বৌদ্ধ অধ্যুষিত তিব্বতে চীনের প্রেসিডেন্ট!

বৌদ্ধ অধ্যুষিত তিব্বতে চীনের প্রেসিডেন্ট!

লকডাউনে সীমিত পরিসরে চলবে হাইকোর্টের বিচার

লকডাউনে সীমিত পরিসরে চলবে হাইকোর্টের বিচার

চিকিৎসকদের কোয়ারেন্টিন বাতিল, আর কত হারাবেন তারা?

চিকিৎসকদের কোয়ারেন্টিন বাতিল, আর কত হারাবেন তারা?

ঈদে হাজী দানেশের বিদেশি শিক্ষার্থীদের ভিন্নরকম অভিজ্ঞতা

ঈদে হাজী দানেশের বিদেশি শিক্ষার্থীদের ভিন্নরকম অভিজ্ঞতা

সংক্রমণ ঠেকাতে ফাইজারের কার্যকারিতা কমছে: ইসরায়েলের গবেষণা

সংক্রমণ ঠেকাতে ফাইজারের কার্যকারিতা কমছে: ইসরায়েলের গবেষণা

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় রিসোর্টে ঘুরতে গিয়ে জরিমানা গুনলেন ২৫ জন

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় রিসোর্টে ঘুরতে গিয়ে জরিমানা গুনলেন ২৫ জন

হেরাতে তালেবান ঠেকানোর লড়াইয়ের নেতৃত্বে সাবেক মুজাহিদিন কমান্ডার

হেরাতে তালেবান ঠেকানোর লড়াইয়ের নেতৃত্বে সাবেক মুজাহিদিন কমান্ডার

করোনার মাঝেও অলিম্পিকের বর্ণাঢ্য উদ্বোধন

করোনার মাঝেও অলিম্পিকের বর্ণাঢ্য উদ্বোধন

অলিম্পিক গেমস উপলক্ষে গুগলের ডুডল

অলিম্পিক গেমস উপলক্ষে গুগলের ডুডল

দ্বিতীয় ঢেউয়েও বাংলাদেশের অর্থনীতির ঘুরে দাঁড়ানো অব্যাহত: এডিবি

দ্বিতীয় ঢেউয়েও বাংলাদেশের অর্থনীতির ঘুরে দাঁড়ানো অব্যাহত: এডিবি

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

৫ বছর পর হার, কারণটা জানালেন মাহমুদউল্লাহ 

করোনার মাঝেও অলিম্পিকের বর্ণাঢ্য উদ্বোধন

বাংলাদেশকে হারিয়ে সমতায় ফিরলো জিম্বাবুয়ে

বিপদে পড়ে গেছে বাংলাদেশ

নাঈম-সৌম্যকে সাজঘরে পাঠালেন মুজারাবানি

করোনা পজিটিভ করিম বেনজিমা

বাংলাদেশকে ১৬৭ রানের লক্ষ্য দিলো জিম্বাবুয়ে

মায়ার্সের পর সাজঘরে সিকান্দার রাজা

২ উইকেট পড়লেও রানের চাকা সচল জিম্বাবুয়ের

বাংলাদেশে হচ্ছে না সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ

© 2021 Bangla Tribune