X
মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারি ২০২৩
১৭ মাঘ ১৪২৯

কানাডায় যাচ্ছেন মুহিবুল্লাহর পরিবারের আরও ১০ সদস্য

টেকনাফ (কক্সবাজার) প্রতিনিধি
০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ২২:৪৬আপডেট : ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ২২:৪৬

কক্সবাজারের শরণার্থী ক্যাম্পে নৃশংস হত্যাকাণ্ডের শিকার মুহিবুল্লাহর পরিবারের আরও ১০ সদস্য কানাডার উদ্দেশে ক্যাম্প ত্যাগ করেছেন। এ নিয়ে তৃতীয় দফায় তার পরিবারের সদস্যরা কানাডায় যাচ্ছেন। এর আগে মুহিবুল্লাহর পরিবারসহ দুই দফায় ২৫ জন স্বজন কানাডায় গিয়েছিলেন।

সোমবার (০৫ ডিসেম্বর) সকালে উখিয়ার কুতুপালং ট্রানজিট পয়েন্ট থেকে ঢাকার উদ্দেশে রওনা দেন তারা।

বিষয়টি নিশ্চিত করে সরকারের উচ্চপর্যায়ের এক কর্মকর্তা বলেন, ‘মুহিবুল্লাহর মেয়ের জামাই নওখিমের স্বজন রশিদ উল্লাহ ও মো. সেলিমের দুই পরিবারের ১০ সদস্য কানাডার উদ্দেশে ক্যাম্প ত্যাগ করেছেন। তাদের এখানকার প্রক্রিয়া শেষে ঢাকার উদ্দেশে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। সেখান থেকে কানাডায় রওনা দেওয়ার কথা রয়েছে তাদের।’

বিষয়টি স্বীকার করে শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মোহাম্মদ মিজানুর রহমান বলেন, ‘তৃতীয় দফায় মুহিবুল্লাহর পরিবারের আরও কয়েকজন সদস্য কানাডায় যাচ্ছেন। ইতোমধ্যে তারা ক্যাম্প ত্যাগ করেছেন। তবে কতজন যাচ্ছেন তা নিশ্চিত হতে পারিনি। এর আগে দুই দফায় একইভাবে মুহিবুল্লাহর ২৫ জন স্বজন কানাডায় গিয়েছিলেন।’

ক্যাম্পে নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা ৮-আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক (অতিরিক্ত ডিআইজি) আমির জাফর বলেন, ‘মুহিবুল্লাহর পরিবারের কয়েকজন সদস্য উখিয়া ট্রানজিট পয়েন্ট থেকে ঢাকার উদ্দেশে রওনা হয়েছেন। সেখান থেকে তারা কোথায় যাবেন, তা আমার জানা নেই।’

উখিয়া ট্রানজিট পয়েন্টের বাসিন্দা মো. জিয়াবুল হক বলেন, ‘কঠোর নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে মুহিবুল্লাহর মেয়ের জামাই নওখিমের বড় ভাই রশিদ উল্লাহ ও মো. সেলিমের দুই পরিবারের ১০ সদস্যকে কানাডায় নেওয়ার কথা বলে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।’

২০২১ সালের ২৯ সেপ্টেম্বর উখিয়ার কুতুপালং ক্যাম্পে নিজ কার্যালয়ে গুলিতে নিহত হন রোহিঙ্গা নেতা মুহিবুল্লাহ। এরপর তার পরিবারের সদস্যদের ক্যাম্প থেকে সরিয়ে উখিয়া ট্রানজিট পয়েন্টে কঠোর নিরাপত্তায় রাখা হয়। একইসঙ্গে শুরু হয় তৃতীয় কোনও দেশে পাঠানোর প্রক্রিয়া। তারই অংশ হিসেবে কানাডায় নেওয়া হয় তাদের।

/এএম/
সর্বশেষ খবর
এক মাসে মেট্রোরেলে চড়েছে ৩ লাখ ৩৫ হাজার যাত্রী
এক মাসে মেট্রোরেলে চড়েছে ৩ লাখ ৩৫ হাজার যাত্রী
‘বাস্তবতার নিরিখে রাজধানীতে পাতাল রেল হচ্ছে’
‘বাস্তবতার নিরিখে রাজধানীতে পাতাল রেল হচ্ছে’
বিশ্বকাপ জয়ের পর ইন্সটাগ্রাম ব্লকড হয়েছিল মেসির!
বিশ্বকাপ জয়ের পর ইন্সটাগ্রাম ব্লকড হয়েছিল মেসির!
পাকিস্তানের মসজিদে পুলিশের ওপর হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৮৭
পাকিস্তানের মসজিদে পুলিশের ওপর হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৮৭
সর্বাধিক পঠিত
সংবাদ প্রকাশের পর কুমিল্লার হাইওয়ে হোটেলে অভিযান
সংবাদ প্রকাশের পর কুমিল্লার হাইওয়ে হোটেলে অভিযান
অভিনেত্রী আঁখির অবস্থা এখনও আশঙ্কাজনক
অভিনেত্রী আঁখির অবস্থা এখনও আশঙ্কাজনক
এনআইডি’র সঙ্গে সমন্বয় করে পাসপোর্ট সমস্যা দ্রুত সমাধানের সুপারিশ
এনআইডি’র সঙ্গে সমন্বয় করে পাসপোর্ট সমস্যা দ্রুত সমাধানের সুপারিশ
এসআইবিএল থেকে মাহবুব-উল-আলমের পদত্যাগ
এসআইবিএল থেকে মাহবুব-উল-আলমের পদত্যাগ
আলাদা ইউনিট করে রাজউকই পূর্বাচলে নাগরিক সেবা দেবে
আলাদা ইউনিট করে রাজউকই পূর্বাচলে নাগরিক সেবা দেবে