X
রবিবার, ২৬ মে ২০২৪
১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

পানির দাম প্রায় দ্বিগুণ বাড়ানোর প্রস্তাব চট্টগ্রাম ওয়াসার

নাসির উদ্দিন রকি, চট্টগ্রাম
২২ এপ্রিল ২০২৪, ১০:৪৪আপডেট : ২২ এপ্রিল ২০২৪, ১০:৫৭

শিগগিরই মন্ত্রণালয়ে যাচ্ছে চট্টগ্রাম ওয়াসার পানির দাম বৃদ্ধির প্রস্তাব। আবাসিকে পানির দাম ৩০ শতাংশ এবং অনাবাসিকে ৫০ শতাংশ বাড়াতে চাচ্ছে চট্টগ্রাম ওয়াসা। বর্তমানে বাসাবাড়িতে এক ইউনিট (এক হাজার লিটার) পানির দাম গুনতে হচ্ছে ১৮ টাকা করে। নতুন প্রস্তাব করা হচ্ছে ২৩ টাকা ৪০ পয়সা করে। একইভাবে অনাবাসিকে (বাণিজ্যিক) প্রতি ইউনিট পানির বর্তমান দাম দিতে হচ্ছে ৩৭ টাকা করে। নতুন প্রস্তাবে ৫৫ টাকা ৫০ পয়সা করে। 

গত ১৪ মার্চ চট্টগ্রাম ওয়াসার অনুষ্ঠিত ৭৯তম বোর্ড সভায় পানির দাম বাড়ানোর প্রস্তাব ওঠে। ওয়াসার পক্ষ থেকে এক সঙ্গে ৬১ দশমিক ৩৪ শতাংশ দাম বৃদ্ধির প্রস্তাব করা হয়। ওই সভায় পানির দাম বৃদ্ধির বিষয়ে বোর্ড থেকে সাত সদস্যের একটি কমিটি গঠন করা হয়। এতে আহ্বায়ক করা হয় ওয়াসার বোর্ড সদস্য সিদ্ধার্থ বড়ুয়াকে। গত ১৬ এপ্রিল বোর্ডের ৮০তম সভায় কমিটি প্রতিবেদন পেশ করে। এতে আবাসিকে পানির দাম ৩০ শতাংশ এবং অনাবাসিকে ৫০ শতাংশ বৃদ্ধিও সুপারিশ করা হয়।

এ প্রসঙ্গে চট্টগ্রাম ওয়াসার প্রধান প্রকৌশলী মাকসুদ আলম বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘শিগগরিই ওয়াসার পানির দাম বৃদ্ধির প্রস্তাব মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হবে। এতে আবাসিকে ৩০ শতাংশ এবং অনাবাসিকে ৫০ শতাংশ দাম বৃদ্ধির প্রস্তাব করা হয়। এ প্রস্তাবে বোর্ড সদস্যদের সই বাকি আছে। এর পর দাম বৃদ্ধির প্রস্তাবটি প্রথমে পাঠানো হবে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ে। মন্ত্রণালয়ের অনুমোদনের পর এ প্রস্তাব যাবে প্রধানমন্ত্রীর দফতরে।’

এদিকে, তীব্র গরমে চট্টগ্রাম ওয়াসার পানি সরবরাহ কমেছে। তার ওপর পানিতে দেখা দিয়েছে মারাত্মক লবণাক্ততা। ফলে চরম দুর্ভোগে আছে ওয়াসার গ্রাহকরা। এরমধ্যে দাম বৃদ্ধির প্রস্তাব মানতে নারাজ  গ্রাহকরা।

নগরীর বাকলিয়া থানাধীন কল্পলোক এলাকার বাসিন্দা আহমেদ মুসা বলেন, ‘প্রতিষ্ঠার এত বছরেও চট্টগ্রাম ওয়াসা বাকলিয়াসহ নগরীর অনেক এলাকায় পানি সরবরাহ নিশ্চিত করতে পারেনি। এ প্রতিষ্ঠান এতগুলো প্রকল্প নেওয়ার পরও নগরীতেই পানি সরবরাহ নিশ্চিত করতে পারেনি। এটা ওয়াসা কর্মকর্তাদের ব্যর্থতা।’

নগরীর চকবাজার এলাকার বাসিন্দা জামাল উদ্দিন হাওলাদার বলেন, ‘ওয়াসার পানি সরাসরি খাওয়া তো দূরে থাক ব্যবহারের অনুপযোগী। পানির মান নিশ্চিতে প্রতিষ্ঠানটি কোন ভুমিকাই রাখতে পারছেন না। প্রতিষ্ঠানটি অনিয়ম-দুর্নীতিতে ডুবেছে। এ প্রতিষ্ঠানটিতে পানির সিস্টেম লস্ ৩০ শতাংশের বেশি। এত পানি সিস্টেম লসের কোন কারণ নেই। সিস্টেম লসের নামে এসব পানি নিয়ে বাণিজ্য চলছে।’

ওয়াসার প্রধান প্রকৌশলী মাকসুদ আলম বলেন, ‘লবণাক্ততার কারণে ওয়াসার পানি সরবরাহ কিছুটা কমেছে। বর্তমানে দৈনিক ৪২ থেকে ৪৪ কোটি লিটার পানি সরবরাহ করা হচ্ছে। তবে চাহিদা আছে ৫৫ কোটি লিটারের মতো। ঘাটতি পানি রেশনিং করে সরবরাহ করা হচ্ছে।’

বর্তমানে চট্টগ্রাম ওয়াসায় মোট পানির সংযোগ আছে ৮৮ হাজার ৭৭১টি। এর মধ্যে ৮২ হাজার ৬৪২টি আবাসিক এবং ৬ হাজার ১২৯টি অনাবাসিক সংযোগ আছে। অর্থাৎ সংযোগের মধ্যে ৯১ শতাংশ পানির ব্যবহার হচ্ছে আবাসিকে এবং ৯ শতাংশ পানির ব্যবহার হচ্ছে অনাবাসিকে।

সর্বশেষ ২০২২ সালের ১ সেপ্টেম্বর আবাসিকে ১৮ টাকা এবং অনাবাসিকে ৩৭ টাকা হারে নতুন করে নির্ধারিত হয় চট্টগ্রাম ওয়াসার পানির দাম। বর্তমানে প্রতি হাজার লিটার পানির (আবাসিক-অনাবাসিক) বিক্রয়মূল্য পড়ছে ১৯ দশমিক ৭১ টাকা করে।

ওয়াসা সূত্র জানায়, চট্টগ্রাম ওয়াসার ৭৯তম বোর্ড সভায় পানির দাম বাড়ানোর বিষয়টি তুলে ধরে বলা হয়, রাঙ্গুনিয়া অবস্থিত শেখ হাসিনা পানি শোধনাগার, ফেজ-২ এর খরচ বিবরণী অনুযায়ী বিদ্যুৎ, জ্বালানি তেল, বেতনভাতা ও চট্টগ্রাম ওয়াসার আওতাধীন বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্পের সুদাসলসহ আনুষঙ্গিক ব্যয় ক্রমাগত বৃদ্ধির ফলে প্রতি হাজার লিটার পানির উৎপাদন ব্যয় হচ্ছে ৩১ দশমিক ৮০ টাকা। এতে দেখা যাচ্ছে প্রতি হাজার লিটার পানিতে ১২ দশমিক ৯ টাকা করে ঘাটতি হচ্ছে। এই ঘাটতি পূরণ করতে পানির দাম বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়।

এছাড়া চট্টগ্রাম ওয়াসার আওতাধীন বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্পের অধীনে নেওয়া সুদাসলসহ মোট ঋণের পরিমাণ ৩ হাজার ৫৫৮ কোটি ৩৯ লাখ ৭৯ হাজার ২০৩ টাকা। আগামী অর্থবছর থেকে এসব ঋণের টাকা শোধ করতে হবে ওয়াসাকে।

চট্টগ্রাম ওয়াসার ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রকৌশলী একেএম ফজলুল্লাহ বলেন, ‘চট্টগ্রাম ওয়াসা চাইলে প্রতি বছর ৫ শতাংশ পর্যন্ত দাম বাড়াতে পারে। এবার ঘাটতি মেটাতে সমন্বয় করতে দাম বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়েছে। প্রস্তাবটি শিগগিরই মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হবে।’ 

/এফএস/
সম্পর্কিত
‘বাজেটে পানি ও স্যানিটেশন খাতে বরাদ্দ বাড়লেও বৈষম্য রয়ে গেছে’
‘২০৫০ সালের মধ্যে বরেন্দ্র অঞ্চল মরুভূমিতে পরিণত হবে’
ওয়াটারএইডে পৃষ্ঠপোষকতা অব্যাহত রাখবেন ব্রিটেনের রাজা
সর্বশেষ খবর
ভারতের রাজকোটে খেলার স্থানে আগুন, নিহত ২৭
ভারতের রাজকোটে খেলার স্থানে আগুন, নিহত ২৭
ঘূর্ণিঝড় রিমাল: চট্টগ্রামে যত প্রস্তুতি
ঘূর্ণিঝড় রিমাল: চট্টগ্রামে যত প্রস্তুতি
উপকূলে ‘মে আতঙ্ক’
উপকূলে ‘মে আতঙ্ক’
টিভিতে আজকের খেলা (২৬ মে, ২০২৪)
টিভিতে আজকের খেলা (২৬ মে, ২০২৪)
সর্বাধিক পঠিত
ব্যক্তি পর্যায়ের কর হার বাড়বে
ব্যক্তি পর্যায়ের কর হার বাড়বে
‘তুফান’র গানে প্রীতম, আছেন পর্দায়ও!
‘তুফান’র গানে প্রীতম, আছেন পর্দায়ও!
এমপি আনার হত্যা: কে এই সিলিস্তা রহমান?
এমপি আনার হত্যা: কে এই সিলিস্তা রহমান?
রঙমিস্ত্রি থেকে যেভাবে এমপি আনার হত্যায় জড়ায় জিহাদ
রঙমিস্ত্রি থেকে যেভাবে এমপি আনার হত্যায় জড়ায় জিহাদ
সর্বজনীন পেনশন স্কিমে যুক্ত হলেন কেএসআরএমের ১ হাজার কর্মকর্তা-কর্মচারী
সর্বজনীন পেনশন স্কিমে যুক্ত হলেন কেএসআরএমের ১ হাজার কর্মকর্তা-কর্মচারী