রাজপথে পাটকল শ্রমিকরা, গাড়ি-ট্রেন চলাচল বন্ধ

Send
খুলনা প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১১:৪১, এপ্রিল ০৫, ২০১৬ | সর্বশেষ আপডেট : ১১:৪৫, এপ্রিল ০৫, ২০১৬

শ্রমিকদের বিক্ষোভ

 

বকেয়া পাওনাসহ ৫ দফা দাবিতে খুলনা-যশোর অঞ্চলের ৭ রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকলের শ্রমিকরা মঙ্গলবার রাজপথ-রেলপথ অবরোধ কর্মসূচি পালন করছেন। মঙ্গলবার ভোর ৬টা থেকে শ্রমিকরা নতুন রাস্তা মোড়, আটরা ও রাজঘাট এলাকায় অবস্থান নিয়ে কর্মসূচি শুরু করে। কর্মসূচি চলবে দুপুর ২টা পর্যন্ত। এ কর্মসূচিতে কয়েক হাজার শ্রমিক যোগ দিয়েছেন।

রাষ্ট্রায়ত্ত জুট মিল সিবিএ-নন সিবিএ ঐক্য পরিষদের ডাকে শ্রমিকরা সোমবার থেকে মিলের উৎপাদন বন্ধ রেখে ধর্মঘট শুরু করে। এরই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবারও শ্রমিকরা নিজ নিজ মিল গেটে ভোরে সমবেত হয়। পরে খালিশপুর ও দিঘলিয়া শিল্প এলাকার শ্রমিকরা বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে নতুন রাস্তা মোড়, আটরা শিল্প এলাকার শ্রমিকরা আটরা মোড়ে ও নওয়াপাড়া শিল্প এলাকার শ্রমিকরা রাজঘাট এলাকায় খুলনা-যশোর মহাসড়ক ও রেলপথ সংযোগ স্থলে অবস্থান করে।

বিক্ষোভ কর্মসূচি

শ্রমিকরা মহাসড়ক ও রেললাইনের ওপর টায়ার জ্বালিয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করতে থাকে। এ কর্মসূচির কারণে সকাল থেকে যানবাহন ও ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়ে পড়ে। নতুন রাস্থা, আটরা ও নওয়াপাড়া শিল্প এলাকার দীর্ঘ সড়ক জুড়ে যানজটের সৃষ্টি হয়। যাত্রীরা চরম দুর্ভোগের মধ্যে পড়েছেন।

রেলপথ অবরোধ

খুলনা রেল স্টেশনের স্টেশন মাস্টার মো: আমিরুল ইসলাম বলেন, শ্রমিকদের অবরোধের কারণে সকাল থেকে কোনও ট্রেনই ছাড়া হয়নি। যাত্রীরা স্টেশনেই অবস্থান নিয়েছেন। বেলা ২টার পর পর্যায়ক্রমে ট্রেনগুলো ছাড়া হবে।

শ্রমিক ধর্মঘট

শ্রমিকরা বিভিন্ন স্থানে সমাবেশেও করেছেন। সমাবেশে বক্তারা বলেন, পাট মৌসুম শেষ হলেও অর্থাভাবে পাট ক্রয় না করায় মিলগুলো বন্ধ এবং শ্রমিক, কর্মচারী ও কর্মকর্তাদের বেকার হওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। পাটকলে  শ্রমিক, কর্মচারী ও কর্মকর্তাদের জন্য ঘোষিত মহার্ঘ ভাতা বাস্তবায়ন করতে হবে। চাকরিচ্যুত শ্রমিক, কর্মচারী ও কর্মকর্তাদের পিএফ গ্রাচুয়্যাটির অর্থ প্রদান করতে হবে। এছাড়া শ্রমিক-কর্মচারীদের সব পাওনা পরিশোধের জন্য বিজেএমসি কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানান শ্রমিক নেতারা।

 

/এসটি/

লাইভ

টপ
X