X
বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪
৫ বৈশাখ ১৪৩১

মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস তুলে ধরতে সাইকেলে সীমান্ত ভ্রমণ করছেন তারা

হিলি প্রতিনিধি
২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ২০:৩২আপডেট : ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ২০:৩৭

মহান মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস ও সীমান্তবর্তী এলাকার মানুষের জীবনযাত্রার মান সাধারণ মানুষের মাঝে তুলে ধরতে সাইকেল চালিয়ে ভ্রমণ করছেন অভিযাত্রী নামের একটি সংগঠনের কয়েকজন সদস্য। তারই ধারাবাহিকতায় হিলি সীমান্ত রেলস্টেশন ও সম্মুখ সমর পরিদর্শনসহ এখানকার মানুষের সঙ্গে সাক্ষাৎ করছেন তারা। তাদের এমন উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছে স্থানীয় প্রশাসন।

সোমবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) সকালে বিরামপুর থেকে সাইকেল চালিয়ে যাত্রা শুরু করে এক নারীসহ ৬ সদস্যের দল। এর আগে তারা দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে এসে একত্রিত হন। বিরামপুর থেকে সাইকেল চালিয়ে তারা হিলি সীমান্তে আসেন। এ সময় তারা মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় সবচেয়ে বড় সম্মুখ যুদ্ধের স্মৃতি স্বরূপ মুহাড়াপাড়ায় নির্মিত সম্মুখ সমর পরিদর্শন, হিলি সীমান্ত, রেলস্টেশন এলাকা ঘুরে দেখেন ও এখানকার মানুষের সঙ্গে কথা বলেন। পরে তারা জয়পুরহাটের উদ্দেশ্যে হিলি ছাড়েন। পর্যায়ক্রমে তারা দেশের সব সীমান্ত এলাকা পরিদর্শন করবেন বলে জানান।

সীমান্তের মেঠোপথ ধরে ছুটে যাচ্ছেন তারা

অভিযাত্রীর সদস্য আশীষ রঞ্জন দে বলেন, ‘অভিযাত্রী মূলত পর্বত আরোহণ বিষয়ক সংগঠন। পাশাপাশি আমরা হাঁটি, সাইকেল চালিয়ে বিভিন্ন স্থান ভ্রমণ করি। আমাদের এই হাঁটা ও সাইকেল চালানোর মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে মুক্তিযুদ্ধকালীন সময়ে যারা ভয়ে শরণার্থী হয়ে দেশ ছেড়ে পালিয়ে নিরাপদ আশ্রয়ে গেছেন, সে সময়ে তারা কতটা কষ্ট ও দুঃখ-যন্ত্রণা সহ্য করেছেন তা অনুধাবন করা। আমরা নতুন প্রজন্ম যেমন এর মাধ্যমে সেই ইতিহাস সম্পর্কে জানছি তেমনি এগুলো আগামী প্রজন্মকে জানাতে চাই।’

তারেক অনু বলেন, ‘আমরা কয়েক বছর ধরে সাইকেল চালিয়ে সীমান্ত ঘেঁষা শহরগুলো পরিদর্শন করছি। আমাদের ইচ্ছা যে পর্যন্ত যাওয়ার সুযোগ আছে, অনুমতি রয়েছে সে পর্যন্ত এলাকাগুলো পরিদর্শন করার। আজ আমরা হিলি সীমান্তে অনেক কিছু জানতে পেরেছি। সীমান্তবর্তী এলাকার মানুষের জীবনযাপন কিন্তু শহরের চেয়ে সম্পূর্ণ আলাদা। এখানে যে কত বৈচিত্র্য, কত সৌন্দর্য্য আছে তা বলে শেষ করা যাবে না। সারা দেশের মানুষকে আমরা এ বিষয়ে আগ্রহী করে তুলতে চাই।’

হিলি সীমান্তে আনন্দের হাসি সবার চোখে মুখে

দলটির আরেক সদস্য হাসিবুল হাসান বলেন, ‘আমরা কয়েক বছর ধরেই সাইকেল চালিয়ে সীমান্ত এলাকা ঘুরে বেড়াচ্ছি। গত বছর বিরামপুর উপজেলায় এসে যাত্রা শেষ করেছিলাম। আজ বিরামপুর থেকে আবারও এ বছরের যাত্রা শুরু করি। সেখান থেকে সাইকেল চালিয়ে হিলি সীমান্তে এসেছি। এরপর পর্যায়ক্রমে বিভিন্ন সীমান্ত এলাকা সাইকেল চালিয়ে ভ্রমণ করবো। যাত্রাপথে যেসব স্থানে বধ্যভূমি, গণকবর, বীরশ্রেষ্ঠরা শহীদ হয়েছিলেন এমন স্থান ঘুরে দেখবো।’

হাকিমপুর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান শাহিনুর রেজা বলেন, ‘অভিযাত্রীর কয়েকজন সদস্য সাইকেল চালিয়ে সীমান্তবর্তী এলাকায় মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় ঘটে যাওয়া মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস ও এখানকার মানুষের জীবনযাত্রার মান সম্পর্কে জানতে এবং তা সাধারণ মানুষের মাঝে তুলে ধরার উদ্যোগ নিয়েছেন। আজ তারা হিলি সীমান্ত পরিদর্শন করেছেন। তাদের এমন উদ্যোগকে আমাদের উপজেলাবাসীর পক্ষ থেকে সাধুবাদ জানাই।’

/আরআইজে/
সম্পর্কিত
একদিনে হিলি দিয়ে ১১৯৮ টন আলু আমদানি
হিলিতে বিজিবির কাছ থেকে পণ্য ছিনিয়ে নেওয়ার অভিযোগে যুবক গ্রেফতার
হিলি দিয়ে ৬ দিন বন্ধ থাকবে আমদানি-রফতানি
সর্বশেষ খবর
যে কারণে ১৫ লাখ প্রাপ্তবয়স্ক ধূমপান ছাড়তে উৎসাহী হবে
যে কারণে ১৫ লাখ প্রাপ্তবয়স্ক ধূমপান ছাড়তে উৎসাহী হবে
বহির্বিশ্বে বাংলাদেশের প্রথম পতাকা উত্তোলন দিবস পালিত হলো কলকাতায়
বহির্বিশ্বে বাংলাদেশের প্রথম পতাকা উত্তোলন দিবস পালিত হলো কলকাতায়
সরকারি চাকরির বড় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি, বেতন স্কেল ৯৩০০-২২৪৯০ টাকা
সরকারি চাকরির বড় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি, বেতন স্কেল ৯৩০০-২২৪৯০ টাকা
মিয়ানমারে বিদ্রোহী-নিয়ন্ত্রিত শহরে কোণঠাসা জান্তা
মিয়ানমারে বিদ্রোহী-নিয়ন্ত্রিত শহরে কোণঠাসা জান্তা
সর্বাধিক পঠিত
এএসপি বললেন ‌‘মদ নয়, রাতের খাবার খেতে গিয়েছিলাম’
রেস্তোরাঁয় ‘মদ না পেয়ে’ হামলার অভিযোগএএসপি বললেন ‌‘মদ নয়, রাতের খাবার খেতে গিয়েছিলাম’
মেট্রোরেল চলাচলে আসতে পারে নতুন সূচি
মেট্রোরেল চলাচলে আসতে পারে নতুন সূচি
‘আমি এএসপির বউ, মদ না দিলে রেস্তোরাঁ বন্ধ করে দেবো’ বলে হামলা, আহত ৫
‘আমি এএসপির বউ, মদ না দিলে রেস্তোরাঁ বন্ধ করে দেবো’ বলে হামলা, আহত ৫
রাজধানীকে ঝুঁকিমুক্ত করতে নতুন উদ্যোগ রাজউকের
রাজধানীকে ঝুঁকিমুক্ত করতে নতুন উদ্যোগ রাজউকের
তৃতীয় ধাপে যেসব উপজেলায় ভোট
তৃতীয় ধাপে যেসব উপজেলায় ভোট