ভিয়েনায় রেস্তোরাঁ-ক্যাফেতে খেলে ৫০ ইউরো উপহার!

Send
জার্নি ডেস্ক
প্রকাশিত : ২২:২২, মে ১৯, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২২:২৬, মে ১৯, ২০২০

ভিয়েনার একটি রেস্তোরাঁইউরোপের দেশ অস্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনায় স্বাভাবিক জীবন ফিরিয়ে আনার লক্ষ্যে নেওয়া হচ্ছে নানান উদ্যোগ। আরোপিত অবরোধ (লকডাউন) শেষ হওয়ায় শহরটির বাসিন্দাদের ঘর থেকে বেরিয়ে রেস্তোরাঁয় খেতে উৎসাহিত করা হচ্ছে। এজন্য প্রতিটি পরিবার পাচ্ছে ৫০ ইউরোর (৪ হাজার ৭০০ টাকা) ভাউচার! শহরের মেয়র মাইকেল লুডউইগ এই ঘোষণা দিয়েছেন। 

ভিয়েনায় সাড়ে ৯ লাখ পরিবারের বসবাস। মেয়র উল্লেখ করেন, প্রতিটি পরিবারকে বাইরে এসে রেস্তোরাঁ ও ক্যাফেতে খাওয়ার জন্য ভাউচার দেওয়া হবে। মাইক্রো ব্লগিং সাইট টুইটারে নিজের অ্যাকাউন্টে খবরটি শেয়ার করেছেন তিনি।
মেয়র জানান, কোনও ঘরে একজন থাকলে ২৫ ইউরো আর একাধিক সদস্য থাকলে ৫০ ইউরো দেওয়া হবে। ভাউচারগুলো রেস্তোরাঁ ও ক্যাফেতে নগদ হিসেবে বিনিময় করা যাবে। তবে অ্যালকোহল পানীয়র বিলের ক্ষেত্রে এটি কার্যকর হবে না।

করোনাভাইরাসের কারণে দুই মাস লকডাউন থাকায় শহরের খাবার দোকানগুলোর অবস্থা নাজুক। পায়ের তলা শক্ত করতে তাদের সরকারি সহায়তা ছাড়া উপায় নেই। তাই ভিয়েনার রেস্তোঁরা ও ক্যাফে মালিকদের সহায়তায় বিভিন্ন পদক্ষেপ নিচ্ছে অস্ট্রিয়া সরকার। ভাউচার উপহার দেওয়া এরই অংশ। মেয়র আরও জানিয়েছেন, ভিয়েনার রেস্তোরাঁগুলোর জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের ৪ কোটি ইউরো বরাদ্দের পরিকল্পনা আছে।

ভাউচারগুলো গত ১৬ মে থেকে বৈধ হয়েছে। ওইদিন বেশকিছু সতর্কতামূলক নির্দেশিকা মেনে অস্ট্রিয়ায় রেস্তোরাঁ ও ক্যাফে পুনরায় খুলেছে। এর মধ্যে রয়েছে প্রত্যেক কর্মীকে সবসময় নাক-মুখ ঢেকে রাখা, প্রতিটি টেবিল তিন ফুট দূরত্বে রাখা, চারজনের বেশি একসঙ্গে বসতে না দেওয়া (একই পরিবারের হলে চারজনের বেশি বসা যাবে), রাত ১১টার মধ্যে দোকান বন্ধ করা।

তথ্যসূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

/জেএইচ/
টপ