শাবির পুরাতন ভবনগুলোতে বসানো হচ্ছে লিফট

Send
শাবি প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৩:৫১, সেপ্টেম্বর ১৬, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৪:১২, সেপ্টেম্বর ১৬, ২০২০

শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়েয় পুরাতন ভবনগুলোতে বসানো হচ্ছে ক্যাপসুর লিফট। এ তথ্য জানান বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ ।

IMG_20200915_150059
উপাচার্য বলেন, আমাদের অনেক শিক্ষকেরই হার্টের সমস্যা, শারীরিকভাবে ভারসাম্যহীন, হুইল চেয়ার দিয়ে ওঠা-নামা করে, মহিলা শিক্ষক যারা গর্ভবতী, অনেক বয়স্ক ও সিনিয়র শিক্ষক আছেন তাদের কথা ভেবে এ লিফট বসানো হচ্ছে।’
উপাচার্য আরও বলেন, পুরাতন শিক্ষাভবন ‘সি’ ও ‘ই’ তে এ লিফট বসানো হচ্ছে। আস্তে আস্তে পুরাতন সকল ভবনেই লিফটের ব্যবস্থা করা হবে। সাধারণত ৫ তলা ভবনের নিচে লিফট বসানোর অনুমতি নেই, কিন্তু আমরা যথাযথ কর্তৃপক্ষ থেকে অনুমতি নিয়ে এ ব্যবস্থা করছি। এসময় যেসকল শিক্ষক ও শিক্ষার্থী সিঁড়ি ব্যবহার করে যাতায়াত করতে সক্ষম, তাদেরকে লিফট ব্যবহার থেকে বিরত থাকতে অনুরোধ জানিয়েছেন উপাচার্য।  
লিফটের সার্বিক বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান প্রকৌশলী সৈয়দ হাবিবুর রহমান বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজস্ব বাজেট থেকে প্রায় ১ কোটি টাকা ব্যয়ে দু’টি ভবনে ক্যাপসুল লিফট বসানো হচ্ছে। যা শুধুমাত্র শারীরিকভাবে অসামর্থ্য শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা ব্যবহার করতে পারবে। এ লিফটে একসাথে ৬-৮ জন যাতায়াত করতে পারবেন।
প্রধান প্রকৌশলী আরও জানান, গত ১৩ আগস্ট থেকে লিফট বসানোর কাজ শুরু হয়েছে। তবে আগে থেকে লিফট বসানোর পরিকল্পনা না থাকায় ভবনের ভিতর দিয়ে এ লিফট বসানো হচ্ছে। এ জন্য খরচও অনেকাংশে বেশি হচ্ছে। আগামী অক্টোবর মাসের মধ্যে এ কাজ সম্পন্ন হবে।
উল্লেখ্য, বিশ্ববিদ্যালয়ের বেশ কিছু বিভাগে শারীরিকভাবে ভারসাম্যহীন শিক্ষক ও শিক্ষার্থী রয়েছেন। যারা প্রতিনিয়ত কষ্ট করে সিঁড়ির মাধ্যমে চলাফেরা করেন। এর প্রেক্ষিতে তাদের কথা ভেবে প্রত্যেক ভবনে লিফটের ব্যবস্থার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।  

/এনএ/

সম্পর্কিত

লাইভ

টপ