গাজীপুরে ফ্যান কারখানায় আগুন, ১০ জনের মৃত্যু

Send
গাজীপুর প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ২০:০৮, ডিসেম্বর ১৫, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২১:২২, ডিসেম্বর ১৫, ২০১৯

আগুন

গাজীপুর সদরের বারিয়া ইউনিয়নের কেশোরিতা এলাকায় লাক্সারি ফ্যান কোম্পানি লিমিটেডের একটি কারখানায় আগুন লেগেছে। এতে অন্তত ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছেন আরও অন্তত ১৫ জন। মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। রবিবার (১৫ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় এ ঘটনা ঘটে। গাজীপুর ফায়ার সার্ভিসের উপসহকারী পরিচালক মো. মামুনুর রশীদ এসব তথ্য জানান। 

মামুনুর রশীদ বলেন, ‘ওই কারখানা ভবনের তিন তলার টিনশেডে আগুনের সূত্রপাত হয়। এ ঘটনায় আহত ও নিহতদের পরিচয় এবং আগুন লাগার কারণ তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি। কতজন আটকা পড়েছিলেন তার ঠিক হিসাব বলা সম্ভব হচ্ছে না।’

ফায়ার সার্ভিস কর্মকর্তা জানান, আগুনের খবর শুনে গাজীপুর ফায়ার সার্ভিসের দুটি ইউনিটের দমকল কর্মীরা চেষ্টা চালিয়ে রাত ৮টার দিকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনেন। এর আগে বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে আগুনের সূত্রপাত হয়। নিয়ন্ত্রণের পর মরদেহ ও আহতদের উদ্ধার তৎপরতা চলছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, কারখানাটি তিন তলাবিশিষ্ট। হঠাৎ করে ওপরের তলার টিনশেডের একটি অংশে আগুন দেখা যায়। মুহূর্তে টিনশেডের পুরো অংশে ছড়িয়ে পড়ে। টিনশেডের একটি কক্ষে কয়েকজন কর্মী আটকে পড়েন। পরে দমকল কর্মীরা এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনেন।

ফায়ার সার্ভিসের ঢাকা অফিসের ডিউটি অফিসার লিমা খানম বাংলা ট্রিবিউনকে জানান, আগুন লাগার পর ফায়ার সার্ভিসের উপ-সহকারী পরিচালকের নেতৃত্বে চারটি ইউনিট দুই ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। পরে কারখানার ভেতর থেকে ১০ জনের লাশ উদ্ধার করা হয়। কারখানাটি সম্পূর্ণ পুড়ে গেছে।

জয়দেবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাবেদুল ইসলাম বলেন, ‘কারখানাটি তিন তলা। তবে দোতলা পর্যন্ত বিল্ডিং। এর উপরে টিনের শেড। পুরোটাই পুড়ে গেছে। ১০ জনের পুড়ে যাওয়া মরদেহ কারখানার ভেতরে পাওয়া গেছে। আরও হতাহত থাকতে পারে। ভেতরে ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা তল্লাশি করছেন।’

গাজীপুরের পুলিশ সুপার শামছুন্নাহার বলেন, ‘কারখানটিতে খুবই অব্যবস্থাপনা ছিল। উপরে টিনশেড ছিল। কারখানা থেকে বের হওয়ার দরজা ছিল একটি। আগুন লাগার পর সবাই পেছনে গিয়ে আশ্রয় নিয়েছিলেন। সেখানেই দশজন পুড়ে মারা গেছেন। আহত হয়েছেন দুজন।’

/আরজে/এআরআর/আইএ/এনআই/এমওএফ/

লাইভ

টপ