শিক্ষার্থীদের সার্টিফিকেট ও মালামাল ফেলে দেওয়া ছাত্রাবাসের মালিক কারাগারে

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৯:৩২, জুলাই ০৫, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৯:৩৪, জুলাই ০৫, ২০২০

মেস মালিক খোরশেদরাজধানীর রাজাবাজার এলাকায় ভাড়া না দেওয়ায় ৫০ শিক্ষার্থীর সার্টিফিকেট ও মালামাল ফেলে দেওয়ার ঘটনায় ছাত্রাবাসের মালিক খোরশেদ আলমকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত। রবিবার (৫ জুলাই) ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আশেক ইমাম শুনানি শেষে এ আদেশ দেন। আদালতের সংশ্লিষ্ট থানার সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা (জিআরও) শরীফ সাফায়েত এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
তিনি বলেন, কলাবাগান থানার মামলায় তদন্ত কর্মকর্তা একদিনের রিমান্ড শেষে খোরশেদ আলমকে আদালতে হাজির করেন। একইসঙ্গে মামলার তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন। শুনানি শেষে বিচারক কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।
এর আগে গত শুক্রবার (৩ জুলাই) ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মাসুদুর রহমান শুনানি শেষে খোরশেদ আলমের একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। গত ২ জুলাই পুলিশ খোরশেদকে গ্রেফতার করে।
রাজধানীর গ্রিন রোডের বেসরকারি সোনারগাঁও ইউনিভার্সিটির ৫০ শিক্ষার্থী রাজাবাজারে আলিফ নামের একটি ছাত্রাবাসে ভাড়া থাকতেন। করোনা পরিস্থিতিতে গত মার্চে বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ হলে শিক্ষার্থীরা তাদের কক্ষে তালা লাগিয়ে বাড়িতে চলে যান। কিছুদিন আগে জানতে পারেন, ছাত্রাবাস মালিক তাদের আসবাবপত্রসহ মালামাল সরিয়ে ফেলেছে। ওই ঘটনায় সোনারগাঁও ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থী মো. সোহান বাদী হয়ে কলাবাগান থানায় ছাত্রাবাসের মালিক খোরশেদ আলমের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন।

/টিএইচ/এমআর/

লাইভ

টপ