X
মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪
৪ আষাঢ় ১৪৩১

বাজে সিদ্ধান্ত গ্রহণকেই দায়ী করলেন পাকিস্তান কোচ 

স্পোর্টস ডেস্ক
১০ জুন ২০২৪, ১১:৫৫আপডেট : ১০ জুন ২০২৪, ১১:৫৫

বিস্ময়ক হারই দেখেছে পাকিস্তান। দুই ইনিংস মিলিয়ে ৩৫ ওভার পর্যন্ত ম্যাচটা ঝুঁকে ছিল পাকিস্তানের দিকে। শেষ ৬ ওভারে ৪০ রান দরকার ছিল। আশার আলো হয়ে জ্বলছিলেন রিজওয়ান। কিন্তু বুমরার দুর্দান্ত ডেলিভারিতে তিনি বোল্ড হতেই পথ হারায় পাকিস্তান। বলা যায় ঠাণ্ডা মাথার বুমরার বোলিং নৈপুণ্য ভারতকে জয়ের পথে এনেছে। এমন হারের পর হতাশা গোপন করেননি পাকিস্তান কোচ গ্যারি কারস্টেন।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে টানা দ্বিতীয় হারের পর পাকিস্তান কোচের কাছে প্রশ্ন করা হয়েছিল ম্যাচটা তারা কোন জায়গায় হেরেছে। জবাবে তিনি বাজে সিদ্ধান্ত গ্রহণকে দায়ী করেছেন, ‘হারটা হতাশাজনক। আমরা আসলে বাজে সিদ্ধান্ত গ্রহণেই ম্যাচটা হেরেছি।’

আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে প্রথমবার ভারতকে অলআউট করেছে পাকিস্তান, তাও আবার মাত্র ১১৯ রানে। কিন্তু সেই রান করতে গিয়েই ঘাম ছুটেছে পাকিস্তানের। কারস্টেনও জানালেন, রানটা কম হলেও সেটা তাড়া করা মোটেও সহজ ছিল না, ‘জানতাম ১২০ রান তাড়া মোটেও সহজ হবে না। তার পরেও ৭২ রানে ২ উইকেট থাকা পর্যন্ত ম্যাচটা আমাদের হাতেই ছিল। কিন্তু সেটা পার করতে না পারাটা আমাদের জন্য ছিল হতাশার।’

ম্যাচের টার্নিং পয়েন্ট ছিল বুমরার বলে রিজওয়ানের আউট। ৩১ বলে ৪৪ রানে ব্যাট করছিলেন পাকিস্তানের এই ব্যাটার। ঠিক তখন বুমরার নতুন স্পেলের প্রথম বলে স্লগ করতে গিয়ে আউট হয়েছেন তিনি। তাতে টানা দ্বিতীয়বার ম্যাচ সেরা হয়েছেন ভারতের বুমরা। ম্যাচের পর দলের শান্তভাবে টিকে থাকাকেই কৃতিত্ব দিচ্ছেন তিনি, বড় ইতিবাচক দিকটি হচ্ছে শান্ত থাকা। সকালে আমাদের ব্যাটিংয়ের সময় উইকেটে অনেক সহায়তা ছিল। আমাদের বোলিংয়ের সময় আকাশ পরিষ্কার। বলও সেভাবে 

সিম মুভমেন্ট পাচ্ছিল না। তাই আমাদের আরও নিখুঁত ও ধারাবাহিক হতে হতো। তাই আমরা দলীয়ভাবে শান্ত থেকেই নিজেদের কাজটা করেছি। এমনটা করতে পেরে দারুণ খুশি।’ 

 

/এফআইআর/         
সম্পর্কিত
সুপার এইটের ভেন্যু অ্যান্টিগায় পৌঁছেছেন শান্ত-সাকিবরা
সেরা দশে বাংলাদেশের দুই বোলার, নেই কোনও ব্যাটার
ফার্গুসনের বিধ্বংসী বোলিংয়ে তানজিম সাকিবের কীর্তি ১৪ ঘণ্টাও টিকলো না! 
সর্বশেষ খবর
কোরবানির পশুর বর্জ্য অপসারণকে প্রতিযোগিতায় রূপান্তর করেছি: মেয়র তাপস
কোরবানির পশুর বর্জ্য অপসারণকে প্রতিযোগিতায় রূপান্তর করেছি: মেয়র তাপস
ইসরায়েলের হাইফা শহরে নজরদারির দাবি হিজবুল্লাহ’র
ইসরায়েলের হাইফা শহরে নজরদারির দাবি হিজবুল্লাহ’র
উৎসবের আমেজ জাতীয় চিড়িয়াখানায়
উৎসবের আমেজ জাতীয় চিড়িয়াখানায়
বুধবার খুলছে অফিস আদালত, চলবে নতুন সময়সূচিতে
বুধবার খুলছে অফিস আদালত, চলবে নতুন সময়সূচিতে
সর্বাধিক পঠিত
তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ দ্বারপ্রান্তে, ভারতীয় জ্যোতিষের ভবিষ্যদ্বাণী
তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ দ্বারপ্রান্তে, ভারতীয় জ্যোতিষের ভবিষ্যদ্বাণী
মাংস কেনা-বেচার ঈদ মোহাম্মদপুরে
মাংস কেনা-বেচার ঈদ মোহাম্মদপুরে
বাড়ি ফিরে পেতে স্ত্রী-সন্তান নিয়ে ফুটপাতে দিদারুল
ঈদের দিনে অনশনবাড়ি ফিরে পেতে স্ত্রী-সন্তান নিয়ে ফুটপাতে দিদারুল
থমথমে ‘তুফান’, অন্তর্জালে ‘দরদ’ মুগ্ধতা
থমথমে ‘তুফান’, অন্তর্জালে ‘দরদ’ মুগ্ধতা
২৪ বছর পর রাষ্ট্রীয় সফরে উত্তর কোরিয়ায় পুতিন
২৪ বছর পর রাষ্ট্রীয় সফরে উত্তর কোরিয়ায় পুতিন