‘আমাদের প্রথম লক্ষ্য ভারতকে হারানো’

Send
রবিউল ইসলাম
প্রকাশিত : ১৯:২০, ফেব্রুয়ারি ২১, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৯:৩৫, ফেব্রুয়ারি ২১, ২০২০

নিগার সুলতানা২০১৫ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে অভিষেক নিগার সুলতানার। মেয়েদের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে বাংলাদেশের গুরুত্বপূর্ণ সদস্য এই উইকেটেকিপার। ৪৮ টি-টোয়েন্টি খেলার অভিজ্ঞতা নিয়ে বিশ্বমঞ্চে লড়তে প্রস্তুত হচ্ছেন তিনি। অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়ে শুভসূচনা করা ভারতের বিপক্ষেই বাংলাদেশ খেলবে প্রথম ম্যাচ। ২৪ ফেব্রুয়ারি উদ্বোধনী ম্যাচে চোখ রেখেই শুক্রবার স্থানীয় সময় বিকেলে ব্রিসবেন থেকে পার্থের উদ্দেশে যাত্রা করে সালমা খাতুনরা। জয় দিয়ে বিশ্বকাপ অভিযান শুরুর স্বপ্ন নিগারের। ব্রিসবেন থেকে মুঠোফোনে বাংলা ট্রিবিউনকে দল ও নিজের প্রস্তুতি নিয়ে অনেক কথাই বলেছেন অভিজ্ঞ এই ক্রিকেটার।

বাংলা ট্রিবিউন: আজ (শুক্রবার) পার্থে যাচ্ছেন। ব্রিসবেনের ক্যাম্পে প্রস্তুতি কেমন হলো?

নিগার সুলতানা: মনে হচ্ছে তো ভালোই প্রস্তুতি হয়েছে। প্রস্তুতি ম্যাচ একটিই খেলতে পেরেছি, অন্তত ওই ম্যাচের ফল তো সেটাই জানান দিচ্ছে। জয় নিয়ে যেহেতু মূল মঞ্চে খেলতে যাচ্ছি, আমাদের সবার আত্মবিশ্বাস ভালো। এই আত্মবিশ্বাসই হয়তো ভারতের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচে ভালো খেলতে সাহায্য করবে।

বাংলা ট্রিবিউন: গ্রুপের চার ম্যাচ আপনাদের খেলতে হবে তিন ভেন্যুতে। মানিয়ে নেওয়া কতটা কঠিন?

নিগার: উইকেটগুলো আসলেই কিন্তু ভিন্ন ভিন্ন হতে পারে। আমরা ব্রিসবেনে অনেক সময় কাটিয়েছি। পার্থের উইকেট কিছুটা ভিন্নও হতে পারে। তারপরও যতদূর জানি ঐতিহ্যগতভাবেই অস্ট্রেলিয়ার উইকেট সবই কাছকাছি রকমের। ফলে উইকেট নিয়ে আমরা খুব একটা ভাবছি না। আজ আমরা পার্থে যাচ্ছি, ওখানে ভারতের বিপক্ষে ম্যাচের আগে দুদিন অনুশীলন করার সুযোগ পাবো। ফলে উইকেট সম্পর্কে ধারণা কিছুটা হলেও পাবো। এছাড়া এই ভেন্যুতে হওয়া ম্যাচগুলোর ভিডিও ফুটেজ দেখে আমরা ধারণা নিচ্ছি।

বাংলা ট্রিবিউন: গ্রুপে আছে অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ড-ভারতের মতো কঠিন প্রতিপক্ষ। তাদের বিপক্ষে লড়াই করে বাংলাদেশ কতদূর যাওয়ার স্বপ্ন দেখছে?

নিগার: আমরা সুদূরপ্রসারী চিন্তা এখনই করছি না। আমাদের প্রথম লক্ষ্য ভারতকে হারানো। ভারতের বিপক্ষে আমরা খেলেছি। তাদের শক্তি-দুর্বলতার জায়গা সম্পর্কে জানি। অবশ্যই আমরা অন্তত দুটো ম্যাচ জিততে চাই। আশা করি প্রত্যাশামতো পারফর্ম করতে পারবো।

বাংলা ট্রিবিউন: অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ভারতের শুরু তো জয় দিয়ে হলো, ওরা নিশ্চয়ই বাংলাদেশের বিপক্ষে আরও আগ্রাসী ক্রিকেট খেলবে?

নিগার: কেউ তো আর হারতে চায় না। আমরাও সহজে ছাড় দেবো না। হয়তো ওরা (ভারত) ম্যাচটি জিতে ভালো অবস্থায় আছে। কিন্তু টি-টোয়েন্টি বলে-কয়ে জেতা যায় না। নির্দিষ্ট দিনে যারা ভালো খেলবে তারাই কিন্তু ম্যাচ জিতবে। আশা করি আমরা ভারতের বিপক্ষে ভালোভাবে শুরু করতে পারব।

বাংলা ট্রিবিউন: দারুণ ফর্মে আছেন আপনি, শেষ আন্তর্জাতিক ম্যাচে মালদ্বীপের বিপক্ষে সেঞ্চুরি পেয়েছিলেন। বিশ্বকাপ সামনে রেখে আপনার প্রস্তুতি কেমন?

নিগার: বোলিং ইউনিট হিসেবে আমরা সবসময়ই ভালো ছিলাম। কিন্তু ব্যাটিং ইউনিটে আমরা কখনোই ভালো করতে পারিনি। ব্যাক্তিগতভাবে আমি অনেক কাজ করে আসছি। আইসিসি গ্লোবাল স্কোয়াডের সদস্য হিসেবে অস্ট্রেলিয়াতে এসেছিলাম। এখানকার দুই-একটি ভেন্যুতে খেলার অভিজ্ঞতা আছে। উইকেট সম্পর্কেও আমার খানিকটা ধারণা আছে। ওটা মাথায় রেখে অনুশীলন করেছি, ব্যক্তিগতভাবে কিছু কাজ করেছি। বিশেষ করে শর্ট বলের ওপরই বেশি কাজ করেছি। জানেনইতো এখানকার উইকেটে আমাদের ব্যাটসম্যানদের শর্ট বলই বেশি খেলতে হবে।

বাংলা ট্রিবিউন: বাংলাদেশ দলে বিগ হিটার নেই, বড় দলগুলোর বিপক্ষে এটা পার্থক্য গড়ে দিবে কী?

নিগার: আমাদের সমস্যা হচ্ছে- টপ অর্ডার ক্লিক করলে, মিডল অর্ডার ক্লিক করতে পারছে না। মিডল অর্ডার করলে টপ অর্ডার করছে না। আমরা কিন্তু গতকাল (পাকিস্তানের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচে) একটা পর্যায়ে ভালো অবস্থায় ছিলাম, ১৫ ওভারে রান ছিল ৮৮। শেষ ৫ ওভারে আমাদের যেখানে ৪০ থেকে ৫০ রান আসার কথা, সেখানে কিন্তু সেটা আসেনি। ওই জায়গাতে হালকা ঘাটতি আছে। কোচেরা চেষ্টা করছেন ওই জায়গাতে উন্নতির। পাওয়ার হিটিংয়েও আমরা কাজ করার চেষ্টা করছি। খুব কম বলে বেশি রান করার চেষ্টায় এই কাজগুলো হচ্ছে। টপ অর্ডার ও মিডল অর্ডার মিলে যদি ভালো খেলতে পারি, আশা করি খুব একটা সমস্যা হবে না। আমাদের যে বোলিং আক্রমণ, আমরা যদি ১৩০ প্লাস টার্গেট দিতে পারি, ওটা যে কোনও দলের জন্যই কঠিন হবে। আমাদের বোলিং আক্রমণ অনেক ভালো।

বাংলা ট্রিবিউন: অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে বাংলাদেশের খেলার অভিজ্ঞতা নেই, ওদের বিপক্ষে গেমপ্ল্যান কিভাবে নিচ্ছেন?

নিগার: যেহেতু ওদের সঙ্গে আমরা খেলিনি, ফলে ভিডিও ফুটেজ দেখে শক্তি-দুর্বলতা সম্পর্কে ধারণা নিতে পেরেছি। আমরা আমাদের পরিকল্পনা অনুযায়ী খেলব, যতটুকু সম্ভব ওদের দুর্বলতা পয়েন্ট আউট করে প্রস্তুতি নেওয়ার চেষ্টা করছি। যেহেতু ওদের সঙ্গে আমাদের কোনও ম্যাচ হয়নি, তাই আমরা আমাদের শক্তির জায়গাতেই স্থির থাকব। প্রতিপক্ষ নিয়ে বেশি ভেবে লাভ নেই, নিজেদের খেলা ওপরই আমাদের মনোযোগ।

/আরআই/কেআর/

লাইভ

টপ