মাস্ক ছাড়া চুল কাটানোয় শাস্তি, মানতে পারছেন না সানচো

Send
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত : ১১:৩৮, জুন ০৬, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১১:৪৭, জুন ০৬, ২০২০

বরুসিয়া ডর্টমুন্ড ফরোয়ার্ড জেডন সানচোইউরোপিয়ান ফুটবলে সবার আগে খেলা শুরু করেছে জার্মানি। বুন্দেসলিগা শুরু হলেও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা নিয়ে দেশটিতে কড়াকড়ি ভীষণ। নিয়ম ভাঙলে আছে কঠোর শাস্তির ব্যবস্থা। সেটাতেই ‘ফেঁসে’ গেছেন বরুসিয়া ডর্টমুন্ড ফরোয়ার্ড জেডন সানচো। নাপিতের কাছে চুল কাটার সময় মুখে মাস্ক না থাকায় তাকে শাস্তি দিয়েছে জার্মান ফুটবল লিগ (ডিএফএল)। ‍কিন্তু সানচোর কাছে শাস্তির ‘পুরোটাই রসিকতা’।

সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখাতে বিধি-নিষেধ থাকলেও নাপিতের কাছে চুল কাটাতে কোনও সমস্যা নেই। কিন্তু মাস্ক না পরায় তৈরি হয়েছে যত ঝামেলা। সানচো ও তার ডর্টমুন্ড সতীর্থ মানুয়েল আকানজির মাস্কা ছাড়া চুল কাটানোর ছবি ছড়িয়ে পড়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। এরপরই তাদের শাস্তি দিয়েছে ডিএফএল। ছবিতে দেখা গেছে, ডর্টমুন্ডের দুই খেলোয়াড় মাস্ক না পরেই নাপিতের কাছে চুল কাটছেন।

ডর্টমুন্ডের আরও চার ফুটবলার একইভাবে চুল কাটিয়েছেন নাপিতের কাছে। যদিও প্রমাণের অভাবে তাদের কোনও শাস্তি হয়নি। কারণ তাদের মাস্ক ছাড়া চুল কাটানোর ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রকাশ পায়নি।

জার্মান ফুটবল লিগ সানচো ও আকানজির জরিমানার বিষয়টি নিশ্চিত করলেও ঠিক কতটা জরিমানা করা হয়েছে, সেটা জানায়নি। ডর্টমুন্ডও জরিমানার বিষয়ে নিশ্চিত করেনি কিছু। শাস্তির বিরুদ্ধে আগামী পাঁচ দিনের মধ্যে আপিল করার সুযোগ পাবেন দুই খেলোয়াড়।

আপিলের আগেই সানচো স্পষ্ট বুঝিয়ে দিয়েছেন, ডিএফএলের দেওয়া শাস্তিতে কতটা বিরক্ত তিনি। তার কাছে জরিমানা ‘হাস্যকর’ ছাড়া কিছুই নয়। নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে ইংলিশ তারকা লিখেছেন, ‘পুরোপুরি হাস্যকর ডিএফএল!’।

/কেআর/

লাইভ

টপ