X
বৃহস্পতিবার, ২১ অক্টোবর ২০২১, ৫ কার্তিক ১৪২৮

সেকশনস

খালেদা জিয়াকে বিদেশে নিতে প্রধানমন্ত্রীর কাছে পরিবারের আবেদন

আপডেট : ০৪ মে ২০২১, ০০:৩৯

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে বিদেশ নেওয়ার জন্য আবেদন করেছে তার পরিবার। এপ্রিল মাসের মাঝামাঝি সময়ে খালেদা জিয়ার পরিবার এ আবেদন করে। সোমবার (৩ মে) বিষয়টি বাংলা ট্রিবিউনকে নিশ্চিত করেছেন বিএনপির দায়িত্বশীল একাধিক সূত্র।

দলের প্রভাবশালী এক দায়িত্বশীল নেতা জানিয়েছেন, খালেদা জিয়াকে বিদেশ নেওয়ার বিষয়ে পরিবারের পক্ষ থেকে চিঠিটি দেওয়া হয়েছে এপ্রিলের মাঝামাঝি সময়ে। সোমবার বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর তাকে বিদেশে নেওয়ার বিষয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের সঙ্গে কথা বলেছেন।

দলের একটি সূত্র জানায়, বিএনপির উচ্চপর্যায় থেকে সরকারের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ করা হচ্ছে।

বিএনপির দলীয় সূত্র জানায়, গত তিন সপ্তাহ ধরে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত বিএনপি চেয়ারপারসনের শারীরিক অবস্থা অবনতি হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে দেশের বাইরে নিতে চায় খালেদা জিয়ার পরিবার। তবে কোন দেশে কবে নাগাদ নেওয়া হবে এ বিষয়ে দলের পক্ষ থেকে এখনও সুনির্দিষ্ট কোনও তথ্য জানা যায়নি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, খালেদা জিয়ার বোন সেলিনা রহমান, তার ভাই শামীম এস্কান্দারসহ একাধিক দায়িত্বশীল ব্যক্তিকে ফোন করা হলেও তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বিএনপির চেয়ারপারসনের মিডিয়া উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ম্যাডামের পরিবারের বিষয়ে আমি কিছু জানি না ।

প্রসঙ্গত, মঙ্গলবার (২৭ এপ্রিল) রাতে খালেদা জিয়াকে রাজধানীর এভার কেয়ার হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। পরদিন বিএনপি প্রধানের চিকিৎসার জন্য ১০ সদস্যের মেডিক্যাল বোর্ড গঠন করা হয়। এর আগে গত ১১ এপ্রিল খালেদা জিয়ার করোনা টেস্টের রিপোর্ট পজিটিভ আসে। ওইদিন বিকালে আনুষ্ঠানিকভাবে দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

২৭ এপ্রিল রাত ৯টা ৩৫ মিনিটে গুলশানের বাসভবন ‘ফিরোজা’ থেকে খালেদা জিয়াকে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য এভার কেয়ার হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। গত ১৫ এপ্রিল বিএনপি চেয়ারপারসন এভার কেয়ার হাসপাতালে সিটি স্ক্যান করান।

আরও পড়ুন:

সিসিইউতে খালেদা জিয়া

খালেদা জিয়া হাসপাতালে ভর্তি

খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল: ডা. জাহিদ

/এসটিএস/এমআর/এফএএন/

সম্পর্কিত

খালেদা জিয়াকে দেখে এলেন মির্জা ফখরুল, দুপুরে সংবাদ সম্মেলন

খালেদা জিয়াকে দেখে এলেন মির্জা ফখরুল, দুপুরে সংবাদ সম্মেলন

হাসপাতালেই আরও কয়েকদিন থাকতে হচ্ছে খালেদা জিয়াকে

হাসপাতালেই আরও কয়েকদিন থাকতে হচ্ছে খালেদা জিয়াকে

হাসপাতালে ভর্তি খালেদা জিয়া

হাসপাতালে ভর্তি খালেদা জিয়া

স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে খালেদা জিয়া

স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে খালেদা জিয়া

ব্যর্থতা ঢাকতেই সাম্প্রদায়িকতাকে আনা হয়েছে: রিজভী

আপডেট : ২১ অক্টোবর ২০২১, ১৩:০৬

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, ‘সরকার পরিকল্পিতভাবে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টের কাজ করছে। তারা দলে দলে বিভাজনের পর এখন সম্প্রদায়ের মাঝেও বিভেদ-বিভাজন তৈরি করেছে। দেশে তো কখনও আমরা সাম্প্রদায়িক সহিংসতার ঘটনা দেখিনি। তারা সাম্প্রদায়িকতার ঘুমন্ত দানবকে জাগিয়ে তুলছে নিজেদের ব্যর্থতা ঢাকার জন্য।’

বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) দুপুরে এক অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার রোগমুক্তি কামনায় রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের নিচতলায় এই দোয়া ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করে জাতীয়তাবাদী মৎস্যজীবী দল। এ সময় বেগম খালেদা জিয়ার আরোগ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করেন রুহুল কবির রিজভী।

রিজভী অভিযোগ করেন, সাম্প্রদায়িক সব ঘটনার সঙ্গে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের জড়িত থাকার কথা বেরিয়ে আসছে গণমাধ্যমের অনুসন্ধানী প্রতিবেদনে। আগে ছাত্রনেতা দেখলে মানুষ সম্মান করতো। এখন সেটা নেই। সরকারের লোকেরা ঘটনা ঘটায় আর মামলা হয় বিএনপির নেতাদের নামে। বরকত উল্লাহ বুলু ও যুবদলের নেতাদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করছে।’

‘আওয়ামী লীগ দেশের গণতন্ত্রকে কবরে পাঠিয়ে দিয়েছে। কিন্তু মনে রাখবেন, সেই সাম্প্রদায়িকতার ঘুমন্ত দানব কিন্তু আপনাদেরও ঘাড় মটকে দেবে,’-যোগ করেন রিজভী।

রুহুল কবির বলেন, ‘রংপুরের পীরগঞ্জের ঘটনা সরকারের নীল নকশা। তাদের ছাত্রলীগ, যুবলীগ ও তাদের অনুগতরাই এ ঘটনা ঘটিয়েছে। সরকার তাদের ভয়াবহ দুর্নীতি, লুটপাট, অন্যায় অবিচার ঢাকার জন্য গণতন্ত্রের মাতা ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়াকে কারাগারে বন্দি রেখেছে।’

মৎস্যজীবী দলের আহ্বায়ক রফিকুল ইসলাম মাহাতাবের সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব মো. আবদুর রহিমের পরিচালনায় মিলাদপূর্ব সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন বিএনপির স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মীর সরাফত আলী সপু, মৎস্যজীবী দলের নাদিম চৌধুরী, অধ্যক্ষ সেলিম মিয়া প্রমুখ।

 

/এসটিএস/আইএ/

সম্পর্কিত

সরকার সন্ত্রাসীদের কঠোর হস্তে দমনের উদ্যোগ নিয়েছে : মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী

সরকার সন্ত্রাসীদের কঠোর হস্তে দমনের উদ্যোগ নিয়েছে : মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছে: ওবায়দুল কাদের

বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছে: ওবায়দুল কাদের

নেতা যেখানে, অফিস সেখানে

নেতা যেখানে, অফিস সেখানে

সরকার সন্ত্রাসীদের কঠোর হস্তে দমনের উদ্যোগ নিয়েছে : মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী

আপডেট : ২১ অক্টোবর ২০২১, ০৭:১০

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেছেন, শান্তির ধর্ম ইসলামের নামে দেশে বিভেদ সৃষ্টি করে কতিপয় ধর্মান্ধ ব্যক্তি সামাজিক অস্থিরতা তৈরি করছে। ধর্মান্ধ কিছু ব্যক্তি ইসলাম ধর্মের অপব্যাখ্যা করে সন্ত্রাসী কর্মকান্ডে লিপ্ত হয়েছে। সরকার সন্ত্রাসীদের কঠোর হস্তে দমন করার সকল উদ্যোগ নিয়েছে।

বুধবার (২০ অক্টোবর) রাজধানীর রমনায় ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন প্রাঙ্গণে পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী উপলক্ষে অনুষ্ঠিত জশনে জুলুস ও শান্তির মহাসমাবেশে বিশেষ  অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ সব কথা বলেন।

অনুষ্ঠানে তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন।  

আঞ্জুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভান্ডারীয়া ও আন্তর্জাতিক সুফি ঐক্য সংহতির চেয়ারম্যান সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদের সভাপতিত্বে সমাবেশে রংপুর পীরগঞ্জ সফররত ধর্ম প্রতিমন্ত্রী মো. ফরিদুল হক খান অনলাইনে যুক্ত হন। অনুষ্ঠানে সংসদ সদস্য নুরুল আমিন রুহুল, ঢাকায় নিযুক্ত ইন্দোনেশিয়ার ভারপ্রাপ্ত রাষ্ট্রদূত হিদায়েত আজতেহ বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন। 

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আরও বলেন, কতিপয় ধর্মান্ধ ব্যক্তি ধর্মের নামে দেশের অগ্রযাত্রাকে ব্যাহত করতে ষড়যন্ত্র করছে। এই ধরনের ইসলামি মহাসমাবেশের মাধ্যমে ইসলামের সঠিক তথ্য মুসলমানরা জানতে পারবেন বলে মন্ত্রী উল্লেখ করেন।

মহাসমাবেশের আগে আঞ্জুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভান্ডারীয়া ও আন্তর্জাতিক সূফি ঐক্য সংহতির ভক্ত ও নেতৃবৃন্দ রাজধানীতে জশনে জুলুসের মিছিল বের করে বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে। চট্টগ্রামের ফটিকছড়ির মাইভান্ডার শরীফের শীর্ষনেতা সৈয়দ সাইফুদ্দীন আহমদ শান্তি মহাসমাবেশ সফল করায় অংশগ্রহণকারীদেরকে ধন্যবাদ জানান। খবর বাসস

/ইউএস/

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

আপডেট : ২০ অক্টোবর ২০২১, ২৩:২৫

আওয়ামী লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) বিকাল ৪টায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকারি বাসভবন গণভবনে অনুষ্ঠিত হবে।

বুধবার (২০ অক্টোবর) দলীয় সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

অনুষ্ঠেয় এ সভায় সভাপতিত্ব করবেন আওয়ামী লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভাপতি শেখ হাসিনা।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের সংশ্লিষ্ট সবাইকে স্বাস্থ্য সুরক্ষা বিধি মেনে যথাসময়ে সভায় উপস্থিত থাকার জন্য আহ্বান জানিয়েছেন। খবর: বাসস

 

/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছে: ওবায়দুল কাদের

বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছে: ওবায়দুল কাদের

নেতা যেখানে, অফিস সেখানে

নেতা যেখানে, অফিস সেখানে

‘শেখ হাসিনা সরকারের ওপর আল্লাহর রহমত আছে’

‘শেখ হাসিনা সরকারের ওপর আল্লাহর রহমত আছে’

বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছে: ওবায়দুল কাদের

আপডেট : ২০ অক্টোবর ২০২১, ২২:৩৬

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছেন। তিনি বলেন, ধর্মকে যারা রাজনৈতিক স্বার্থ হাসিলের জন্য ব্যবহার করে তারাই পরিকল্পিতভাবে বিভাজন তৈরি করতে চায়।

বুধবার (২০ অক্টোবর) তার বাসভবনে ব্রিফিংকালে এ কথা বলেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, যারা এ দেশের স্বাধীনতা মেনে নিতে পারেনি, মেনে নিতে পারে না উন্নয়ন ও সমৃদ্ধি, তারাই জাতিকে বিভাজন করে দুর্বল এবং দেশের ইমেজ নষ্ট করতে চায়। এ বিভাজন রেখা তৈরি করতে চায় বিএনপি ও তার দোসররা।

তিনি বলেন, বিএনপির চরিত্র হচ্ছে মুখে শেখ ফরিদ, বগলে ইট, তাদের কথায় পুষ্পবৃষ্টি হলেও অন্তর কদর্যে ভরা।

বিএনপি নেতারা মিথ্যাচারকে শিল্পে রূপ দিয়েছেন দাবি করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, সাম্প্রদায়িক হামলায় নাকি সরকার জড়িত! আসলে ভিডিও ফুটেজে থলের বিড়াল বেরিয়ে আসছে দেখে তারা একচোখা দৈত্যের আচরণ শুরু করেছে।

তিনি বলেন, বিএনপি নিজেরাই রাজনৈতিকভাবে সাম্প্রদায়িক।

বিএনপি সংখ্যালঘুদের শত্রু মনে করে উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের আরও বলেন, তারা ভেবেছে পূজামণ্ডপে হামলা করলে সরকারের ওপর হিন্দু সম্প্রদায়ের অনাস্থা বাড়বে আর ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের বিরাজমান বন্ধুত্ব নষ্ট হবে।

‘মসজিদগুলো মন্দির হয়ে যাবে, মসজিদে উলুধ্বনি বাজবে- এসব অপপ্রচার বিএনপি অতীতেও চালিয়েছে।’

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, এসব অপকর্ম ও নির্জলা মিথ্যার প্যাটেন্ট একমাত্র বিএনপির।

২০০১ সালে ক্ষমতায় আসার পর সংখ্যালঘুদের ওপর বিএনপির নির্মমতা একাত্তরকেও হার মানিয়েছিল দাবি করে ওবায়দুল কাদের বলেন, এখনও তারা সাম্প্রদায়িক রাজনীতি থেকে বেরিয়ে আসতে পারেনি।

আজ পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী। বিশ্বনবী হজরত মুহাম্মদ (স.)-এর জন্মদিন ও ওফাত দিবস। মুসলিম উম্মাহর জন্য দিনটি পবিত্র এবং মহিমান্বিত।

ধর্ম নিয়ে বাড়াবাড়ি না করতে মহানবীর যে অমরবাণী, তা অক্ষরে অক্ষরে পালনের জন্য দেশের ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের আহ্বান জানান সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী।

আজ প্রবারণা পূর্ণিমা। বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের জন্য আজ একটি গুরুত্বপূর্ণ দিন। আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে ওবায়দুল কাদের বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের সকলকে শুভেচ্ছা জানান।

/পিএইচসি/এমএস/এমওএফ/

সম্পর্কিত

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

‘শেখ হাসিনা সরকারের ওপর আল্লাহর রহমত আছে’

‘শেখ হাসিনা সরকারের ওপর আল্লাহর রহমত আছে’

দুর্গোৎসবকে কেন্দ্র করে এ ঘটনা খুবই অস্বস্তিকর: ১৪ দল

দুর্গোৎসবকে কেন্দ্র করে এ ঘটনা খুবই অস্বস্তিকর: ১৪ দল

সম্প্রীতি বিনষ্টের উসকানি ভারতের মুসলমানদেরও বিপদে ফেলেছে: ওবায়দুল কাদের

সম্প্রীতি বিনষ্টের উসকানি ভারতের মুসলমানদেরও বিপদে ফেলেছে: ওবায়দুল কাদের

২০ দলীয় জোট

নেতা যেখানে, অফিস সেখানে

আপডেট : ২১ অক্টোবর ২০২১, ১০:৪২

বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের কয়েকটি শরিক দলের কোনও অফিস নেই। এগুলোর কার্যক্রম চলে ভিন্ন-ভিন্ন মাধ্যমে। নেতার ব্যক্তিগত অফিস থেকে পরিচালিত হয় কোনও দল। এক্ষেত্রে ছোট-ছোট কয়েকটি শরিক দলের নেতারা যেখানে অবস্থান করেন, সেটাই অফিস হয়ে দাঁড়ায়! জোটের শরিক জাতীয় পার্টি (কাজী জাফর), এলডিপির (একাংশ) ক্ষেত্রে অনুসন্ধান করে এসব তথ্য বেরিয়ে এসেছে। মূলনেতাদের অফিস থাকলেও এসব দলের সুনির্দিষ্ট অফিস করা হয়নি। এছাড়া জোটের আরেক শরিক জাতীয় দলের কার্যালয় থাকলেও তা তদারকি করা অনেকটাই কঠিন হয়ে পড়েছে।

সংশ্লিষ্ট নেতাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, জোটের শরিক এই তিন সংগঠনের দলীয় কোনও কার্যালয় নেই। এর পেছনে রয়েছে বিভিন্ন কারণ। অর্থ, শ্রম ও ব্যয়ের খাত ‘এককভাবে’ পরিচালিত হওয়ায় রাজনৈতিক সভা-সেমিনার আয়োজনের পাশাপাশি একটি অফিস চালানোর সক্ষমতা তাদের ক্ষীণ। তাই অফিস নেওয়া ও পরিচালনার ব্যয়ভার বহনের বিষয়টি তাদের কাছে অনেকটাই কঠিন ঠেকছে।

করোনায় বন্ধ হয়ে গেছে জাতীয় পার্টির (কাজী জাফর অংশ) অফিস

বিএনপি জোটের শরিক জাতীয় পার্টির (কাজী জাফর অংশ) নেতারা অনেকটাই ছন্নছাড়া। ঢাকার পুরানা পল্টনে দারুস সালাম ভবনে তাদের একটি কার্যালয় ছিল, এখন সেটি নেই। যদিও ভবনটির নবম তলায় মহাসচিব আহসান হাবিব লিংকনের ব্যক্তিগত কার্যালয় রয়েছে। কখনও দলের চেয়ারম্যান মোস্তফা জামাল হায়দার এখানে আসেন। দলের আলোচনা হয় সাবেক সংসদ সদস্য লিংকনের অফিসেই।

ঢাকার খিলগাঁওয়ে চেয়ারম্যানের বাসার একটি কক্ষে জাতীয় পার্টির (কাজী জাফর অংশ) বৈঠক

গত ১৪ অক্টোবর সরেজমিনে গিয়ে দুই ব্যক্তিকে পাওয়া যায় দারুস সালাম ভবনে। দলটির কার্যক্রম বলতে প্রেসক্লাব কিংবা কোনও মিলনায়তনে আলোচনা সভার মধ্যে সীমাবদ্ধ। এর বাইরে অন্য কোনও কার্যক্রম নেই জাতীয় পার্টির এই অংশের।

জাপা (কাজী জাফর) মহাসচিব আহসান হাবিব লিংকন বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘দারুস সালাম ভবনের চতুর্থ তলায় আমাদের দলের অফিস ছিল। করোনার কারণে অনেকদিন বন্ধ থাকার পর আমরা আর এটি নিয়মিত রাখিনি। বর্তমানে খিলগাঁওয়ে চেয়ারম্যান সাহেবের বাড়ির একটি রুমে আমরা দলের কাজ করি।’

আহসান হাবিব লিংকন আরও জানান, তিনি সন্ধ্যার দিকে পুরানা পল্টনের দারুস সালাম ভবনে যান। দলের নেতাকর্মীরা এলে রাজনৈতিক আলাপ-আলোচনা সারেন এই অফিসে বসেই।  

নেতা যেখানে, অফিসও সেখানে

কর্নেল (অব.) অলি আহমদের নেতৃত্ব ছেড়ে বেরিয়ে আসা এলডিপির (একাংশ) আপাতত কোনও অফিস নেই। তার নেতৃত্ব প্রত্যাখ্যান করে ২০১৯ সালের ২ ডিসেম্বর এলডিপির নতুন অংশের ঘোষণা দেওয়া হয়। আব্দুল করিম আব্বাসী সভাপতি ও শাহাদাত হোসেন সেলিম এই অংশের মহাসচিব হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

এলডিপির (একাংশ) উচ্চপর্যায়ের একজন নেতার মন্তব্য, ‘দল চালাতে গিয়ে দুই-একজন নেতার অর্থ, পরিশ্রম অনেক বেশি ব্যয় হয়। তবে দলের সভাপতি ও মহাসচিবকে কেন্দ্র করে এলডিপি (একাংশ) পরিচালিত হওয়ায় তারা যেখানেই যান, সেটাই অফিসের মতো হয়ে যায়। তাদের উপস্থিতি জানলে নেতাকর্মীরাও জড়ো হন। এ কারণে এখনও অফিসের প্রয়োজন হয়নি।’

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে গত ১২ অক্টোবর দুপুরে এলডিপি মহাসচিব শাহাদাত হোসেন সেলিম বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘ঢাকার কাজীপাড়ায় আমাদের জ্যেষ্ঠ যুগ্ম-মহাসচিব এম এ বাসারের অফিসে বসা হয়, এটাই আমরা ঠিকানা হিসেবে ব্যবহার করি। আর অফিস কোথায় নেওয়া হবে সেই বিষয়ে দলে আলোচনা হলেই সিদ্ধান্ত নেবো।’

দল ছোট হলেও অফিস চালিয়ে যাচ্ছেন চেয়ারম্যান

২০১৮ সালের ৫ নভেম্বর বিএনপি-জোটে যোগ দেয় সৈয়দ এহসানুল হুদার নেতৃত্বাধীন জাতীয় দল, পিপলস পার্টি অব বাংলাদেশ ও মাইনরিটি পার্টি। হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের মৃত্যুতে রংপুরে একটি সংসদীয় আসন শূন্য হলে পিপলস পার্টি অব বাংলাদেশকে বিএনপিতে একীভূত করেন দলটির উদ্যোক্তা রিটা রহমান। আর বিএনপি-জোট ছেড়ে চলে গেছে মাইনরিটি পার্টি। 

সৈয়দ এহসানুল হুদা জাতীয় দলের অফিস হিসেবে ঢাকার ধানমন্ডি ২ নম্বর সড়কের ৩৮/১ বাড়িটি ব্যবহার করছেন। বাড়ির সামনেই দলের সাইনবোর্ড ঝুলিয়ে রেখেছেন তিনি।

জাতীয় দলের কার্যালয়ে এহসানুল হুদা

সৈয়দ এহসানুল হুদা বাংলা ট্রিবিউনকে জানান, তার দলের অফিস দুই কক্ষের। একটিতে তিনি ও সামনের কক্ষটিতে তার মহাসচিব বসেন। তার দলের মহাসচিবের নাম রফিকুল ইসলাম।

জাতীয়তাবাদী ঘরানার প্রবীণ রাজনীতিক ও আইনজীবী সৈয়দ সিরাজুল হুদার ছেলে সৈয়দ এহসানুল হুদার নেতৃত্বাধীন জাতীয় দলের সভা-সেমিনারকেন্দ্রিক সক্রিয়তা আছে। প্রেসক্লাব এলাকায় মানববন্ধন, সভায় বিএনপির জ্যেষ্ঠ নেতারা অংশগ্রহণ করেন। এসব অনুষ্ঠানেই মূলত নেতাকর্মীদের অংশগ্রহণ হয়।

এহসানুল হুদার কথায়, ‘আমাদের দলটা ছোট। তবুও তদারকি করার চেষ্টা আছে আমাদের।’

আরও পড়ুন-

২০ দলীয় জোট: নেতা এলে অফিস খোলে

২০ দলীয় জোট: এক ভবনেই তিন শরিক দলের অফিস

‘একদল-একনেতা’ ও ‘অনিবন্ধিত’দের ২০ দলীয় জোট, অনেকের অফিসও নেই

/জেএইচ/

সম্পর্কিত

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

আ. লীগের স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভা বৃহস্পতিবার

‘শেখ হাসিনা সরকারের ওপর আল্লাহর রহমত আছে’

‘শেখ হাসিনা সরকারের ওপর আল্লাহর রহমত আছে’

দুর্গোৎসবকে কেন্দ্র করে এ ঘটনা খুবই অস্বস্তিকর: ১৪ দল

দুর্গোৎসবকে কেন্দ্র করে এ ঘটনা খুবই অস্বস্তিকর: ১৪ দল

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

খালেদা জিয়াকে দেখে এলেন মির্জা ফখরুল, দুপুরে সংবাদ সম্মেলন

খালেদা জিয়াকে দেখে এলেন মির্জা ফখরুল, দুপুরে সংবাদ সম্মেলন

হাসপাতালেই আরও কয়েকদিন থাকতে হচ্ছে খালেদা জিয়াকে

আরোগ্য কামনায় প্রার্থনা কর্মসূচিহাসপাতালেই আরও কয়েকদিন থাকতে হচ্ছে খালেদা জিয়াকে

হাসপাতালে ভর্তি খালেদা জিয়া

হাসপাতালে ভর্তি খালেদা জিয়া

স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে খালেদা জিয়া

স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে খালেদা জিয়া

বিকালে এভার কেয়ারে যাচ্ছেন খালেদা জিয়া

বিকালে এভার কেয়ারে যাচ্ছেন খালেদা জিয়া

খালেদা জিয়ার মুক্তির মেয়াদ আরও ৬ মাস বাড়লো

খালেদা জিয়ার মুক্তির মেয়াদ আরও ৬ মাস বাড়লো

খালেদা জিয়ার মুক্তির মেয়াদ শেষ হচ্ছে, আবেদন শিগগিরই

খালেদা জিয়ার মুক্তির মেয়াদ শেষ হচ্ছে, আবেদন শিগগিরই

‘খালেদা জিয়ার বিদেশে যাওয়ার প্রয়োজনীয়তা এখনও রয়েছে’

‘খালেদা জিয়ার বিদেশে যাওয়ার প্রয়োজনীয়তা এখনও রয়েছে’

টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিলেন খালেদা জিয়া

টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিলেন খালেদা জিয়া

‘খালেদা জিয়ার বিদেশে আধুনিক চিকিৎসা প্রয়োজন’

‘খালেদা জিয়ার বিদেশে আধুনিক চিকিৎসা প্রয়োজন’

সর্বশেষ

ভ্যানভর্তি সরকারি চাল রেখে ইউপি সদস্যের দৌড়

ভ্যানভর্তি সরকারি চাল রেখে ইউপি সদস্যের দৌড়

বদরুন্নেসার সহকারী অধ্যাপকের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা

বদরুন্নেসার সহকারী অধ্যাপকের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা

শাহরুখ খানের বাসায় চলছে তল্লাশি

শাহরুখ খানের বাসায় চলছে তল্লাশি

‘ডিজিটাল ডিভাইস হবে সবচেয়ে বড় রফতানি পণ্য’

‘ডিজিটাল ডিভাইস হবে সবচেয়ে বড় রফতানি পণ্য’

ছেলেকে দেখতে কারাগারে শাহরুখ

ছেলেকে দেখতে কারাগারে শাহরুখ

© 2021 Bangla Tribune