X
বৃহস্পতিবার, ২৪ জুন ২০২১, ১০ আষাঢ় ১৪২৮

সেকশনস

ভারতবিরোধী প্রচারণা রাজনৈতিক ব্ল্যাকমেইল: বঙ্গবন্ধু

আপডেট : ০৭ জুন ২০২১, ০৮:০০

(বিভিন্ন সংবাদপত্রে প্রকাশিত তথ্যের ভিত্তিতে বঙ্গবন্ধুর সরকারি কর্মকাণ্ড ও তার শাসনামল নিয়ে মুজিববর্ষ উপলক্ষে ধারাবাহিক প্রতিবেদন প্রকাশ করছে বাংলা ট্রিবিউন। আজ পড়ুন ১৯৭৩ সালের ৭ জুনের ঘটনা।)

কোনও কোনও বিরোধী দলের ভারতবিরোধী সমালোচনার বিষয়ে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বলেছেন, এটা হচ্ছে তার সরকারের বিরুদ্ধে রাজনৈতিক ব্ল্যাকমেইল। বাংলাদেশ ভারতের কাছে চিরকৃতজ্ঞ থাকবে। বঙ্গবন্ধু মন্তব্য করেন, বাংলাদেশ সরকার সিমলা চুক্তিকে স্বাগত জানায়। পাকিস্তানের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় আলোচনার মাধ্যমে ভারত যে কিছু সমস্যার সমাধান করেছে, তা অভিনন্দনযোগ্য। কারণ, আমরা উপমহাদেশে শান্তি চাই। ভারতের একটি সাপ্তাহিকের সঙ্গে সাক্ষাৎকারে বঙ্গবন্ধু এসব কথা বলেন।

সাপ্তাহিকটির দিল্লির ব্যুরো চিফ মি. বাগবন ১৯৭৩ সালের ২৮ মে ঢাকায় এই সাক্ষাৎকার গ্রহণ করেন।

দৈনিক বাংলা, ৮ জুন ১৯৭৩ ১৯৫ জন পাকিস্তানি যুদ্ধাপরাধীর বিচার হবে

বাংলাদেশে যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের উদ্যোগের বিরুদ্ধে পাকিস্তানের সাম্প্রতিক পদক্ষেপ যা-ই হোক না কেন, বাংলাদেশে ১৯৫ জন পাকিস্তানি যুদ্ধাপরাধীর বিচার হবে। এর নড়চড় হবে না। প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ওই সাক্ষাৎকারে বলেন, ‘এই বিচারের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক আদালতে প্রেসিডেন্ট ভুট্টোর দরখাস্তে বাংলাদেশ সরকারের সিদ্ধান্তে কোনও পরিবর্তন হবে না। যে আদালতে খুশি তিনি যেতে পারেন।’  বঙ্গবন্ধু বলেন, ‘তাঁর সরকার যে প্রতিহিংসাপরায়ণ হয়ে যুদ্ধাপরাধের বিচার করছে, তা নয়। আমরা এটা এজন্যই করছি—যাতে বিশ্ববাসী এসব যুদ্ধাপরাধের কথা জানতে পারেন এবং ভবিষ্যৎ বংশধররাও যাতে এ থেকে শিক্ষা গ্রহণ করতে পারে।’

বন্দিরা আত্মপক্ষ সমর্থনের  সুযোগ পাবেন

বঙ্গবন্ধু বলেন, ‘বন্দিদের অবাধ ও নিরপেক্ষ বিচার হবে, সেই বিষয়ে আপনারা আশ্বস্ত থাকতে পারেন। তাদের আত্মপক্ষ সমর্থনের জন্য পাকিস্তান ছাড়া বিশ্বের যেকোনও স্থান থেকে আইনজীবী নিয়োগ করতে দেওয়া হবে।’ বঙ্গবন্ধুকে জিজ্ঞেস করা হয়েছিল—পাকিস্তান যদি ইতোমধ্যে বাংলাদেশকে স্বীকৃতি দিয়ে দেয়, তাহলে যুদ্ধাপরাধের বিচারে পাকিস্তানি আইনজীবী নিয়োগের অনুমতি দেওয়া হবে কিনা। বঙ্গবন্ধু এর জবাবে বলেন, ‘পাকিস্তান বাংলাদেশকে স্বীকৃতি দিক বা না দিক, তাতে কিছু যায় আসে না। বাংলাদেশ টিকে রয়েছে এবং বিশ্বের সর্বাধিক দেশ তাকে স্বীকৃতি দিয়েছে। আজকের প্রশ্ন হচ্ছে—বাংলাদেশ পাকিস্তানকে স্বীকার করে কী করে না। পাকিস্তানের যেটুকু আছে তার কী ভবিষ্যৎ আমি জানি না। আপনি কি তার অখণ্ডতা সম্পর্কে সন্দিহান প্রশ্নে বঙ্গবন্ধু বলেন, ‘খোদা জানেন কী আছে পাকিস্তানের কপালে। আমার আশঙ্কা হয়, পাকিস্তান হয়তো আরও বেশি গোলযোগের সম্মুখীন হতে পারে। কারণ, তার শাসকদের মনোভাব ভালো না। যাই হোক, আমি পাকিস্তানের জনগণের কল্যাণ কামনা করি।’

দৈনিক ইত্তেফাক, ৮ জুন ১৯৭৩ তিনি দুঃখ করে বলেন, ‘আটক বাঙালিদের উদ্ধার করার জন্য বিশ্ববাসী এগিয়ে আসছেন না। আন্তর্জাতিক রেডক্রস কমিটি ভারতে রাখা যুদ্ধাপরাধীদের দেখাশোনা করছে। বাংলাদেশে থাকা পাকিস্তানি নাগরিকদেরও তারা যত্ন নিচ্ছে। অথচ পাকিস্তানে জোর করে আটকে রাখা বাঙালিদের অবস্থা সম্পর্কে খোঁজ-খবর নেওয়ার অনুমতি  দিচ্ছে না পাকিস্তান। এটা জেনেভা কনভেনশন পরিপন্থী। মানবিক সমস্যাগুলো সমাধানের জন্য বাংলাদেশ এবং ভারতের যৌথ উদ্যোগ সারা বিশ্বে প্রশংসিত হয়েছে। কিন্তু পাকিস্তানের দিক থেকে সুনির্দিষ্টভাবে কোনও সাড়া পাওয়া যায়নি। পাওয়ার আশা করাও মুশকিল। কেননা, এ সম্পর্কে কখনও আগে থেকে কোনও কিছু বলা যায় না।’

বাংলাদেশ অবজারভার, ৮ জুন ১৯৭৩ ৭ জুন উপলক্ষে পল্টনে জনসভা

পল্টন ময়দানে এক জনসভায় বক্তৃতাকালে আওয়ামী লীগ নেতারা স্বাধীনতার শত্রু প্রতিবিপ্লবী ও বিশৃঙ্খলা সৃষ্টিকারীদের প্রতিহত করার আহ্বান জানান। দেশ থেকে গুপ্তহত্যা, ডাকাতি, রাহাজানি ও দুর্নীতি নির্মূল করার জন্য তারা প্রগতিশীল রাজনৈতিক দলগুলোকে ঐক্যবদ্ধ হতে ডাক দেন। এছাড়া আন্দোলনের নামে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি না করে জনগণের সমস্যা সমাধানে সরকারের সঙ্গে সহযোগিতা করার জন্য তারা বিরোধী দলের প্রতি আহ্বান জানান। ঐতিহাসিক ৭ জুন পালন উপলক্ষে ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের উদ্যোগে আয়োজিত এক জনসভায় বক্তারা এসব কথা বলেন।

 

/এপিএইচ/এমওএফ/

সম্পর্কিত

খুলনায় টানা ৩ দিন ধরে সর্বাধিক মৃত্যু

খুলনায় টানা ৩ দিন ধরে সর্বাধিক মৃত্যু

এনআইডি ছাড়া টিকার নিবন্ধন করতে পারবেন বিদেশগামী কর্মীরা

এনআইডি ছাড়া টিকার নিবন্ধন করতে পারবেন বিদেশগামী কর্মীরা

আলোচিত সানমুন টাওয়ার নিয়ে তদন্ত করতে বললো সংসদীয় কমিটি

আলোচিত সানমুন টাওয়ার নিয়ে তদন্ত করতে বললো সংসদীয় কমিটি

একদিনে শনাক্ত ফের ৬ হাজার ছাড়ালো, মৃত্যু ৮১

একদিনে শনাক্ত ফের ৬ হাজার ছাড়ালো, মৃত্যু ৮১

নতুন সেনাপ্রধানের দায়িত্বভার গ্রহণ

নতুন সেনাপ্রধানের দায়িত্বভার গ্রহণ

ফ্রিফায়ার-পাবজি-টিকটক বন্ধের পদক্ষেপ চেয়ে আবারও রিট

ফ্রিফায়ার-পাবজি-টিকটক বন্ধের পদক্ষেপ চেয়ে আবারও রিট

চৌর্যবৃত্তি ঠেকাতে বাংলায় টার্নিটিনের মতো সফটওয়্যার তৈরির আহ্বান

চৌর্যবৃত্তি ঠেকাতে বাংলায় টার্নিটিনের মতো সফটওয়্যার তৈরির আহ্বান

ব্যাটারিচালিত রিকশা-ভ্যান নিষিদ্ধ করা অমানবিক: বাংলাদেশ ন্যাপ

ব্যাটারিচালিত রিকশা-ভ্যান নিষিদ্ধ করা অমানবিক: বাংলাদেশ ন্যাপ

নিরাপদ পানি সরবরাহের দাবিতে ওয়াসাকে বিএনপির স্মারকলিপি

নিরাপদ পানি সরবরাহের দাবিতে ওয়াসাকে বিএনপির স্মারকলিপি

জামিন জালিয়াতির ঘটনায় আইনজীবী রাজীব রিমান্ডে

জামিন জালিয়াতির ঘটনায় আইনজীবী রাজীব রিমান্ডে

চামড়া সিন্ডিকেট রোধে নজরদারি করবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

চামড়া সিন্ডিকেট রোধে নজরদারি করবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

হুমায়ুন আজাদ হত্যা মামলায় যুক্তি উপস্থাপন শুনানি ২৩ সেপ্টেম্বর

হুমায়ুন আজাদ হত্যা মামলায় যুক্তি উপস্থাপন শুনানি ২৩ সেপ্টেম্বর

সর্বশেষ

‘পণ্য ডেলিভারির পর টাকা পাবে ইভ্যালির মতো প্রতিষ্ঠান’

‘পণ্য ডেলিভারির পর টাকা পাবে ইভ্যালির মতো প্রতিষ্ঠান’

যুক্তরাষ্ট্রে ধসে পড়লো ১২ তলা ভবন, বহু হতাহতের আশঙ্কা

যুক্তরাষ্ট্রে ধসে পড়লো ১২ তলা ভবন, বহু হতাহতের আশঙ্কা

এনআইডি ছাড়া টিকার নিবন্ধন করতে পারবেন বিদেশগামী কর্মীরা

এনআইডি ছাড়া টিকার নিবন্ধন করতে পারবেন বিদেশগামী কর্মীরা

মান্দায় বাস-ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেলো ২ জনের

মান্দায় বাস-ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেলো ২ জনের

ধান রোপণ নিয়ে সংঘর্ষে প্রাণ গেলো একজনের

ধান রোপণ নিয়ে সংঘর্ষে প্রাণ গেলো একজনের

আলোচিত সানমুন টাওয়ার নিয়ে তদন্ত করতে বললো সংসদীয় কমিটি

আলোচিত সানমুন টাওয়ার নিয়ে তদন্ত করতে বললো সংসদীয় কমিটি

কোম্পানীগঞ্জে ঘরে ঢুকে মা-ছেলেসহ সাংবাদিককে কুপিয়ে আহতের অভিযোগ

কোম্পানীগঞ্জে ঘরে ঢুকে মা-ছেলেসহ সাংবাদিককে কুপিয়ে আহতের অভিযোগ

একদিনে শনাক্ত ফের ৬ হাজার ছাড়ালো, মৃত্যু ৮১

একদিনে শনাক্ত ফের ৬ হাজার ছাড়ালো, মৃত্যু ৮১

২৯ ঘণ্টায় ১০ তলা!

২৯ ঘণ্টায় ১০ তলা!

নতুন সেনাপ্রধানের দায়িত্বভার গ্রহণ

নতুন সেনাপ্রধানের দায়িত্বভার গ্রহণ

ল্যাবে তৈরি হলো ‘বুকের দুধ’!

ল্যাবে তৈরি হলো ‘বুকের দুধ’!

ফ্রিফায়ার-পাবজি-টিকটক বন্ধের পদক্ষেপ চেয়ে আবারও রিট

ফ্রিফায়ার-পাবজি-টিকটক বন্ধের পদক্ষেপ চেয়ে আবারও রিট

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

খুলনায় টানা ৩ দিন ধরে সর্বাধিক মৃত্যু

খুলনায় টানা ৩ দিন ধরে সর্বাধিক মৃত্যু

আলোচিত সানমুন টাওয়ার নিয়ে তদন্ত করতে বললো সংসদীয় কমিটি

আলোচিত সানমুন টাওয়ার নিয়ে তদন্ত করতে বললো সংসদীয় কমিটি

একদিনে শনাক্ত ফের ৬ হাজার ছাড়ালো, মৃত্যু ৮১

একদিনে শনাক্ত ফের ৬ হাজার ছাড়ালো, মৃত্যু ৮১

নতুন সেনাপ্রধানের দায়িত্বভার গ্রহণ

নতুন সেনাপ্রধানের দায়িত্বভার গ্রহণ

চামড়া সিন্ডিকেট রোধে নজরদারি করবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

চামড়া সিন্ডিকেট রোধে নজরদারি করবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

চার বিলে রাষ্ট্রপতির সম্মতি

চার বিলে রাষ্ট্রপতির সম্মতি

সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে না রাখা গেলে ভারতের মতো অবস্থা হবে

সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে না রাখা গেলে ভারতের মতো অবস্থা হবে

দেশের উত্তরাঞ্চলে গড়ে উঠবে গ্যাসভিত্তিক শিল্প

দেশের উত্তরাঞ্চলে গড়ে উঠবে গ্যাসভিত্তিক শিল্প

লায়নদের অভিনন্দন জানালেন বঙ্গবন্ধু

লায়নদের অভিনন্দন জানালেন বঙ্গবন্ধু

© 2021 Bangla Tribune