X
মঙ্গলবার, ০৫ মার্চ ২০২৪
২১ ফাল্গুন ১৪৩০

মাছ ধরার সময় ডাকাত সন্দেহে বৃদ্ধ জেলেকে পিটিয়ে হত্যা

গাজীপুর প্রতিনিধি
০৬ আগস্ট ২০২৩, ১৯:০০আপডেট : ০৬ আগস্ট ২০২৩, ১৯:০০

গাজীপুরে মাছ ধরার সময় ডাকাত সন্দেহে আসাদ উদ্দিন মোল্লা নামে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যা করেছে স্থানীয়রা। শনিবার মধ্যরাতে সদর থানার মজলিশপুরের কাজিপাড়ায় তুরাগ নদে নৌকায় মাছ ধরার সময় তাকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়। এ সময় তার সঙ্গে থাকা আরেক জেলেকে পিটিয়ে আহত করা হয়েছে। 

নিহত আসাদ উদ্দিন মোল্লা (৬৫) কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলার ছিনাই ইউনিয়নের কালুয়ারচর গ্রামের মৃত পাশান মোল্লার ছেলে। আহত নুর হাসান (৪০) একই জেলার সদর থানার যাত্রাপুর ইউনিয়নের কালির আলগারচর গ্রামের মৃত সোহরাব প্রামাণিকের ছেলে।

গাজীপুর সদর থানার ওসি জিয়াউল ইসলাম বলেন, ‘শনিবার মধ্যরাতে ছোট নৌকা নিয়ে মাছ ধরতে ধরতে মহানগরীর কড্ডা এলাকা থেকে কারখানা বাজারের দিকে যাচ্ছিলেন আসাদ উদ্দিন ও নুর হাসান। তাদের নৌকাটি মজলিশপুর এলাকায় পৌঁছালে স্থানীয় কয়েকজন ব্যক্তি থামাতে বলেন। কিন্তু তুরাগ নদে স্রোত থাকায় নৌকা থামাতে দেরি হয়। এ সময়ে পাড়ের লোকজন ডাকাত ডাকাত বলে চিৎকার শুরু করেন। এতে আশপাশের লোকজন ছুটে আসেন। একই সময়ে বিপরীত দিক থেকে আসা একটি ট্রলার আসাদদের নৌকার ওপর উঠিয়ে দেয়। এতে নৌকাটি ডুবে যায়। পরে স্থানীয় লোকজন আসাদ ও নুরকে ধরে নদীর তীরে এনে গণপিটুনি দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই আসাদ নিহত ও নুর গুরুতর আহত হন। খবর পেয়ে রাতেই লাশ উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠায় পুলিশ। একইসঙ্গে আহত ব্যক্তিকে ওই হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।’

/এএম/ 
সম্পর্কিত
জমি নিয়ে বিরোধে যুবককে মারধরে হত্যার অভিযোগ
গভীর সমুদ্র থেকে উদ্ধার ৪ জেলে, এখনও নিখোঁজ ১
বঙ্গোপসাগরে ট্রলারে সিলিন্ডার বিস্ফোরণ, দুই জন দগ্ধ
সর্বশেষ খবর
কামরাঙ্গীরচরে ২৪ হোটেল-রেস্তোরাঁয় অভিযানে আটক ২৪
কামরাঙ্গীরচরে ২৪ হোটেল-রেস্তোরাঁয় অভিযানে আটক ২৪
হামাসের বিরুদ্ধে ইসরায়েলে যৌন সহিংসতার অভিযোগ জাতিসংঘের
হামাসের বিরুদ্ধে ইসরায়েলে যৌন সহিংসতার অভিযোগ জাতিসংঘের
৭ তারিখের মধ্যে বেতনের দাবিতে সড়কে পোশাক শ্রমিকরা
৭ তারিখের মধ্যে বেতনের দাবিতে সড়কে পোশাক শ্রমিকরা
শেফিল্ডকে হারিয়ে যে রেকর্ড গড়লো আর্সেনাল
শেফিল্ডকে হারিয়ে যে রেকর্ড গড়লো আর্সেনাল
সর্বাধিক পঠিত
শিক্ষামন্ত্রীর বক্তব্য প্রত্যাহারের দাবি খেলাফত মজলিসের
শিক্ষামন্ত্রীর বক্তব্য প্রত্যাহারের দাবি খেলাফত মজলিসের
৩ কারণে কাক কমছে ঢাকায়, পরিবেশ বিপর্যয়ের আশঙ্কা
৩ কারণে কাক কমছে ঢাকায়, পরিবেশ বিপর্যয়ের আশঙ্কা
সাত মসজিদ রোডের সব বুফে রেস্তোরাঁ বন্ধ
সাত মসজিদ রোডের সব বুফে রেস্তোরাঁ বন্ধ
বাংলাদেশ ভ্রমণ শেষে ভারতে গিয়েই সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার ব্রাজিলিয়ান তরুণী
বাংলাদেশ ভ্রমণ শেষে ভারতে গিয়েই সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার ব্রাজিলিয়ান তরুণী
ইউক্রেন অবশ্যই রাশিয়ার অংশ: পুতিন মিত্র
ইউক্রেন অবশ্যই রাশিয়ার অংশ: পুতিন মিত্র