জনগণ যে রায় দেবে তা মাথা পেতে নেবো: কামরান

Send
মোহাম্মদ নূর উদ্দিন, সিলেট থেকে
প্রকাশিত : ০৯:১৫, জুলাই ৩০, ২০১৮ | সর্বশেষ আপডেট : ০৯:২৯, জুলাই ৩০, ২০১৮

ভোট প্রদান শেষে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী বদর উদ্দিন আহমদ কামরানসিলেট সিটি করপোরেশন (সিসিক) নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী বদর উদ্দিন আহমদ কামরান বলেছেন, ‘আজকের সিটি নির্বাচনে জনগণ যে রায় দেবে তা মাথা পেতে নেবো। আওয়ামী লীগ গণতন্ত্রে বিশ্বাস করে তাই জনগণের যেকোনো রায় মেনে নেয়।’

সোমবার (৩০ জুলাই) সিলেট সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে সকাল পৌনে ৯টায় ভোট প্রদান শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

তিনি জয়ের ব্যাপারে শতভাগ আশা প্রকাশ করে বলেন, ‘অত্যন্ত সুন্দর এবং সুষ্ঠুভাবে ভোটগ্রহণ চলছে। বিএনপির প্রার্থীর যেসব অভিযোগ রয়েছে তা মিথ্যা এবং অপপ্রচার।’

ভোট প্রদান শেষে তিনি নেতাকর্মীদের নিয়ে বিভিন্ন কেন্দ্র পরিদর্শন করেন।  

এর আগে সকাল ৮টা থেকে সিসিক নির্বাচনে সিটির ২৭টি ওয়ার্ডের ১৩৪টি ভোট কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। চলবে বিকাল ৪টা পর্যন্ত। 

সকালের দিকে বৃষ্টি হওয়ার কারণে ভোটারদের উপস্থিতি কম থাকলেও বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ভোটারদের উপস্থিত বাড়ছে। নির্বাচনকে ঘিরে সকাল থেকেই আইনশৃঙ্খলা বাহিনী রয়েছে অত্যন্ত তৎপর। প্রতিটি কেন্দ্রে ২২ জন করে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা কাজ করেছে। এর মধ্যে ৭ জন পুলিশ ও ১২ জন আনসার সদস্যরা আগ্নেয়াস্ত্রসহ একজন প্লাটুন কমান্ডার ও একজন এপিসি এবং একজন ব্যাটেলিয়ান। এছাড়াও ১৪ প্লাটুন বিজিবি ও র‌্যাবের ২৭টি টিম পুরো এলাকায় কাজ করছে। পাশাপাশি ছিল নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে একাধিক ভ্রাম্যমাণ আদালতের টিম। 

জানা গেছে, সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র পদে সাতজন প্রার্থী থাকলেও মূল প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রয়েছেন আওয়ামী লীগ মেয়র প্রার্থী বদর উদ্দিন আহমদ কামরান (নৌকা) ও বিএনপির মেয়র প্রার্থী আরিফুল হক চৌধুরী। এর বাইরেও মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন জামায়াত সমর্থিত অ্যাডভোকেট এহসানুল মাহবুব জুবায়ের (ঘড়ি), সিপিবি-বাসদ মনোনীতি প্রার্থী আবু জাফর (মই), ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের ডা. মোয়াজ্জেম হোসেন খান ও স্বতন্ত্র প্রার্থী এহসানুল হক তাহের (হরিণ)। এছাড়া বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দাখিলকারী নগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক বদরুজ্জামান সেলিম আরিফুল হককে সমর্থন দিয়ে নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন। এছাড়া সিলেট সিটি নির্বাচনে সাধারণ কাউন্সিলর পদে ১২৭ জন ও সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ৬২ জন প্রার্থী আছেন ভোটের লড়াইয়ে রয়েছেন। 

নির্বাচন অফিস থেকে জানা যায়, সিলেট সিটিতে বর্তমানে মোট ভোটার ৩ লাখ ২১ হাজার ৭৩২ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার হলেন এক লাখ ৭১ হাজার ৪৪৪ জন এবং নারী ভোটার এক লাখ ৫০ হাজার ২৮৮ জন।

/এসএসএ/

লাইভ

টপ