পাহাড়ে ভোটার উপস্থিতি বেশি

Send
বাংলা ট্রিবিউন ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৩:৩৪, মার্চ ১৮, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৪:৫৯, মার্চ ১৮, ২০১৯

রাঙামাটিতে ভোটারদের লাইনদেশের ১১৬টি উপজেলায় সোমবার সকাল ৮টা থেকে ভোটগ্রহণ চলছে। বিরতিহীনভাবে চলছে বিকাল ৪টা পর্যন্ত। সমতলে ভোটার উপস্থিতি না থাকলেও পার্বত্য তিন জেলা রাঙামাটি, বান্দরবান ও খাগড়াছড়িতে ভোটার উপস্থিতি লক্ষ্যনীয়। এখন পর্যন্ত এ তিন জেলা থেকে কোনও অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি। আমাদের প্রতিনিধিদের পাঠানো তথ্যের ভিত্তিতে প্রতিবেদনটি তৈরি করা হলো।

রাঙামাটি

রাঙামাটির দশ উপজেলায় দ্বিতীয় ধাপের উপজেলা পরিষদ নির্বাচন হচ্ছে। শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোটগ্রহণ চলছে। ভোটগ্রহণকে কেন্দ্র করে পুরো জেলায় নিরাপত্তার চাদরে ঢেকে ফেলা হয়েছে। পুলিশ, র‌্যাব, বিজিবির পাশাপাশি কেন্দ্রে কেন্দ্রে স্ট্রাইকিং ফোর্স হিসেবে মোতায়েন করেছে সেনাবাহিনী।

রাঙামাটি সদর উপজেলার বিভিন্ন কেন্দ্রে গিয়ে দেখা যায়, সকাল থেকে শহরের বেশ কিছু কেন্দ্রে ভোটার উপস্থিত ভালো। কিছু কেন্দ্রে কম থাকলেও বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে সেখানে ভোটারের উপস্থিতি বেড়েছে।

যোগেন্দ্র পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোট দিতে আসা ভোটরা বলেন, ‘সকাল থেকে শান্তিপূর্ণভাবে ভোট দিতে পারছে। ভোট দিতে কোথাও কোনও বাধা দিচ্ছে না কেউ। যিনি আমাদের সবার মঙ্গলের জন্য কাজ করবেন তাকেই আমরা ভোট দেবো।’  

রাঙামাটি সদর, যোগেন্দ্র পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, প্রিজাইডিং অফিসার, মহিউদ্দিন বলেন, ‘সকাল থেকে সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোটগ্রহণ চলছে।’

রাঙামাটি সদর কেন্দ্রের (এএসআই) আরিফিন হোসেন বলেন, ‘ভোটাররা ভোট দিয়ে চলে যাচ্ছে, কোনও ভোটার ভোট প্রদানের বাধা দেওয়ার অভিযোগ করেননি। শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট চলেছে।’

এদিকে, ভোট কারচুপি,  কেন্দ্রে যেতে বাধা ও রাতে ব্যালট বাক্স ভর্তির অভিযোগে রাঙামাটির বাঘাইছড়ি, নানিয়ারচর ও কাউখালীতে স্বতন্ত্র পাঁচ চেয়ারম্যান ও সাত ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী ভোট বর্জন করেছেন। তারা নির্বাচন স্থগিত করার আবেদন জানিয়ে রাঙামাটির রিটার্নিং অফিসার ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসককে চিঠি দিয়েছেন।

পার্বত্য জেলা রাঙামাটির ১০ উপজেলায় একযোগে এই ভোট উৎসব চলছে। তবে লংগদু ও কাপ্তাই উপজেলায় বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নৌকার দুই প্রার্থী নির্বাচিত হওয়ায় এখন চেয়ারম্যান পদে লড়াই হচ্ছে বাকি আট উপজেলায়। এর মধ্যে জেলায় চেয়ারম্যান পদে ২০ জন, পুরুষ ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩১, মাহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ২৬  প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। দশ উপজেলায় মোট ভোটার সংখ্যা ৪ লাখ ১৭ হাজার ৩৫৯ জন। ভোট কেন্দ্র রয়েছে ২০৩টি।

বান্দরবান

বান্দরবা‌নের সাতটি উপ‌জেলায়ও ভোটার উপস্থিতি লক্ষ্যনীয়। সকা‌ল ৮টা থে‌কে ভোটারদের লম্বা লাই‌নে দাঁড়ি‌য়ে ভোট দিতে দেখা গেছে। ‌বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে লাইনও লম্বা হচ্ছে। ত‌বে পুরুষ ভোটা‌রের চে‌য়ে নারী ভোটা‌রের সংখ্যা বেশি দেখা গেছে।


ভোটার আবুল বশর নয়ন ব‌লেন,‘আ‌মি নাইক্ষ্যংছ‌ড়ি সরকারি প্রাথ‌মিক বিদ্যাল‌য়ের ভোটকে‌ন্দ্রে ভোট দি‌য়ে‌ছি। খুই শা‌ন্তিপূর্ণভা‌বে ভোট দি‌তে পে‌রে‌ছি। এভা‌বে ভোটগ্রহণ চল‌লে সাধারণ ভোটাররা নির্ভ‌য়ে ভোট দি‌তে পার‌বে ব‌লে আ‌মি ম‌নে ক‌রি।’
ভোটার মু‌ন্নি ব‌লেন, ‘ভোট দিতে আমার কোনও সমস্যা হয়‌নি।’
এ ব্যাপা‌রে বান্দরবান জেলা রিটা‌র্নিং কর্মকর্তা আবুল ক‌ালাম ব‌লেন, জেলার ১৭৬টি কে‌ন্দ্রের ম‌ধ্যে এখনও পর্যন্ত  কোনও কে‌ন্দ্রেই সমস্যা হয়‌নি। সব জায়গায় শা‌ন্তিপূর্ণ নির্বাচন চল‌ছে। এর মধ্যে ১৩টি দুর্গম কেন্দ্রে নিরাপত্তা টহলের জন্য হেলিকপ্টার ব্যবহার করা হচ্ছে।
এবার সাত উপ‌জেলায় চেয়ারম্যান প‌দে ১৬, ভাইস চেয়ারম্যান প‌দে ১৭ ও ম‌হিলা ভাইস চেয়ারম্যান প‌দে ১৪ প্রার্থী নির্বাচন কর‌ছে। এ এলাকায় মোট ভোটার ২ লাখ ৪৬ হাজার ১৮৪ জন।

খাগড়াছড়ি

খাগড়াছড়ির ৮টি  উপজেলায় সোমবার সকাল থেকেই শান্তিপূর্ণভাবে ভোটগ্রহণ চলছে। ভোট দিতে সকাল থেকে পাহাড়ি-বাঙালি ভোটাররা কেন্দ্রে আসেন।  বিভিন্ন কেন্দ্রে ভোটারদের দীর্ঘ লাইন দেখা গেছে। পাহাড়িরা স্বতঃস্ফূর্তভাবেই ভোট দিচ্ছেন। তবে বাঙালি এলাকায় ভোটারদের উপস্থিতি খুবই কম। অনেক কেন্দ্রে ভোটার উপস্থিতি নেই বললেই চলে।

জেলার ১৭৫টি কেন্দ্রের মধ্যে ১৫৭ কেন্দ্রকে গুরুত্বপূর্ণ কেন্দ্র হিসেবে  চিহিৃত করে তিন স্তর বিশিষ্ট নিরাপত্তা বেষ্টনী গড়ে তোলা হয়েছে বলে জানিয়েছে প্রশাসক শহিদুল ইসলাম।

৮টি উপজেলার মধ্যে খাগড়াছড়ি ও মানিকছড়ি দুইটি উপজেলা পরিষদে চেয়ারম্যান ও একটি উপজেলা পরিষদে ভাইস চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের প্রার্থীরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছে। ফলে খাগড়াছড়ি সদর উপজেলা পরিষদে ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান এবং মানিকছড়ি উপজেলা পরিষদে শুধু মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন হচ্ছে।

সব মিলিয়ে চেয়ারম্যান পদে ২১, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ২৭ ও  মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ২৯ প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

আরও পড়ুন:

রাঙামাটিতে ৫ চেয়ারম্যান প্রার্থীর ভোট বর্জন

‘স্থানীয় সরকারকে শক্তিশালী করতে উপজেলা পরিষদের ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ’

ভোটার উপস্থিতি কম, স্বতন্ত্র প্রার্থীর পোলিং এজেন্টদের বের করে দেওয়ার অভিযোগ

বান্দরবা‌নে পুরু‌ষের চেয়ে নারী ভোটা‌রের উপ‌স্থি‌তি বে‌শি

ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থীর পক্ষে কাজ না করায় হামলার অভিযোগ

শান্তিপূর্ণ পরিবেশে পাহাড়ে ভোট চলছে

‘পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দিতে পেরে আনন্দ লাগছে’

দেড় ঘণ্টায় ৬ ভোট!

১১৬ উপজেলায় ভোটগ্রহণ চলছে

/এসটি/

সম্পর্কিত

লাইভ

টপ