টিসিবির পণ্য কিনতে ভিড়, গাদাগাদি করে ঢাকামুখী পোশাক শ্রমিকরা

Send
নাটোর প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৫:২৮, এপ্রিল ০৪, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:৩৫, এপ্রিল ০৪, ২০২০

টিসিবির পণ্য কিনতে ভিড়



করোনাসংক্রমণ প্রতিরোধে জনসমাগম ও দোকানপাট খোলার ওপর নিষেধাজ্ঞা জারির পর থেকে অনেক প্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দামই ঊর্ধ্বমুখী। এজন্য সাধারণ মানুষের সুবিধার্থে সুলভ মূল্যে পণ্য বিক্রি করছে টিসিবি। কিন্তু পণ্য কিনতে আসা লোকজন টিসিবির ট্রাকের সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখছেন না। বরং গায়ে গায়ে লেগে ভিড় করতে দেখা গেছে মানুষকে। সেই সঙ্গে নাটোর থেকে ট্রাকে উঠে গাদাগাদি করে ঢাকাগামী হচ্ছেন শত শত গার্মেন্টস কর্মী। এতে করোনা সংক্রমণের ঝুঁকি বাড়ছে বলে মনে করছেন স্থানীয়রা।

শনিবার (৪ এপ্রিল) দুপুরে সরেজমিনে শহরের মাদ্রাসা মোড় এলাকায় দেখা যায়, টিসিবির পণ্য কিনতে জড়ো হয়েছেন শত শত মানুষ। ট্রাকের পেছনে দুই লাইনে দাঁড়িয়েছেন ক্রেতারা। ক্রেতাদের হাতে পণ্য তুলে দিতে হিমশিম খাচ্ছেন দায়িত্বরতরা।

অপরদিকে নাটোর-ঢাকা হাইওয়ে ঘুরে দেখা যায়, বিভিন্ন গার্মেন্টসে কর্মরত কর্মীরা ট্রাকে করে ছুটছেন ঢাকায়। ট্রাকের মধ্যে গাদাগাদি করে দাঁড়িয়ে ও বসে রয়েছে নারী-পুরুষ-শিশুসহ শত শত মানুষ।

গাদাগাদি করে ঢাকামুখী পোশাক শ্রমিকরা

নাটোর সদর উপজেলা ভূমি কর্মকর্তা আবু হাসান এসব স্বীকার করে জানান, একটি ট্রাক থামিয়ে যাত্রীদের এভাবে যাওয়ার কারণ জানতে চাওয়া হয়েছিল। তারা জানায়, বেতন নিতে ঢাকা ছুটছেন। পরে একটি গার্মেন্টস কোম্পানির দায়িত্বরত ব্যক্তির সঙ্গে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হয়েছে প্রশাসনের পক্ষ থেকে। কর্মীদের অনলাইনে বা বিকাশে টাকা পাঠানো যায় কিনা জানতে চাওয়া হয়েছিল। কিন্তু জবাবে ওই গার্মেন্টসের কর্মকর্তা জানান, মালিকপক্ষের সিদ্ধান্তের বাইরে তাদের কিছুই করার নেই।

নাটোর প্রেস ক্লাবের সভাপতি জালাল উদ্দিন জানান, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে যেখানে সব দোকান বন্ধ করা হয়েছে, বন্ধ করা হচ্ছে সাপ্তাহিক হাটসহ সব গণজমায়েত, সেখানে এভাবে টিসিবির পণ্য বিক্রি ও কর্মীদের ঢাকায় যাওয়া-আসার কারণে করোনার ঝুঁকি বাড়বে। এবিষয়ে ব্যবস্থা নিতে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ ও সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন তিনি।

/এএইচ/এমএমজে/

লাইভ

টপ