X
সোমবার, ০৩ অক্টোবর ২০২২
১৭ আশ্বিন ১৪২৯

‘অপ্রিয় হলেও দেশের স্বার্থে তেলের দাম বাড়ানো সঠিক সিদ্ধান্ত’

রাজশাহী প্রতিনিধি
১৪ আগস্ট ২০২২, ২২:৫০আপডেট : ১৪ আগস্ট ২০২২, ২২:৫০

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম বলেছেন, ‌‘সরকার কখনও চায় না দেশের মানুষ কষ্টে থাকুক। বৈশ্বিক মন্দা পরিস্থিতিতে ভবিষ্যতে আমাদেরও অর্থনৈতিক মন্দা দেখা দিতে পারে। সে কারণে এখন থেকেই প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছে।’

রবিবার (১৪ আগস্ট) রাজশাহীর চারঘাট উপজেলার জাহাঙ্গীরাবাদ-চককৃষ্ণপুর সড়কে বড়াল নদীর ওপর নির্মিত সেতুর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের ঊর্ধ্বগতি ও লোডশেডিং পরিস্থিতির মধ্যে জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির যে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে, তা এখন মানুষের কাছে অপ্রিয় হলেও দেশের স্বার্থে সঠিক সময়ে সঠিক সিদ্ধান্ত। মানুষ এখন না বুঝলেও একসময় ঠিকই বুঝবে।’

গত ১৩ বছরে দেশের উন্নয়ন ও অগ্রগতির চিত্র তুলে ধরে প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘পদ্মা সেতু নিয়ে কত কাহিনি হলো, সমালোচনাকারীরা বললো এই প্রকল্পের মাধ্যমে কোনও ফল আসবে না। অথচ আপনারা অবাক হবেন, উদ্বোধনের পর ৪৫ দিনে পদ্মা সেতুতে টোল আদায় হয়েছে ১০০ কোটি টাকার বেশি। এটাও প্রধানমন্ত্রীর সঠিক সিদ্ধান্ত ছিল।’

তিনি বলেন, ‘গ্রামে যে উন্নয়ন হয়েছে তা অকল্পনীয়। আমরা যখন ছোট ছিলাম, তখন রাস্তা ছিল না, ব্রিজ ছিল না, বিদ্যুৎ ছিল না, অবকাঠামোগত উন্নয়ন ছিল না। এখন সব হচ্ছে। কাজেই কেউ গুজবে কান দেবেন না।’

উল্লেখ্য, তিনটি স্প্যান বিশিষ্ট জাহাঙ্গীরাবাদ-চককৃষ্ণপুর সড়কে বড়াল নদীর ওপর ৯৬ মিটার দীর্ঘ ও ৭.৩০ মিটার প্রস্থের সেতুটি নির্মাণ করে স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদফতর। সেতুটি নির্মাণে ব্যয় হয়েছে পাঁচ কোটি ৯১ লাখ টাকা। 

দুপুরে চারঘাট উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে ২০২১-২২ অর্থবছরের এডিপির বরাদ্দে দুস্থ নারীদের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ, দুরারোগ্য ব্যাধিতে আক্রান্তদের মাঝে অনুদান ও যুব ঋণের চেক প্রদান অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন প্রতিমন্ত্রী।

অনুষ্ঠানে জাতির পিতা ও ১৫ আগস্টে শহীদ এবং শহীদ পরিবারের সদস্যদের গভীর শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করেন প্রতিমন্ত্রী। তিনি বলেন, আজ দেশের যে পরিবর্তন হয়েছে তার ভীত তৈরি করেছিলেন বঙ্গবন্ধু। বঙ্গবন্ধু বীজ বপন করেছিলেন, সেই বীজ থেকে গজানো চারাগাছকে আজ এই জায়গায় নিয়ে এসেছেন বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা।

এখন দেশে ফসল উৎপাদন আগের চেয়ে তিন গুণ বেড়েছে উল্লেখ করে প্রতিমন্ত্রী বলেন, এখানে যারা আছেন আপনারা আপনাদের পিতা-মাতা, দাদা-দাদি ও বয়োজ্যেষ্ঠদের কাছে জিজ্ঞেস করে দেখবেন, একসময় দেশ গরিব ছিল। এখন যে ফসল হয় আগে এর তিন ভাগের এক ভাগ হতো। রাস্তাঘাট ছিল না, স্কুল-কলেজ ছিল না, স্কুল থাকলেও স্কুলের ছাদ ছিল না। সেই অবস্থা এখন আর নেই। সব বদলে গেছে।

দেশে অন্নহীন-গৃহহীন কেউ থাকবে না জানিয়ে প্রতিমন্ত্রী বলেন, শেখ হাসিনা বলেছেন দেশের কোনও মানুষকে না খেয়ে থাকতে দেবেন না, গৃহহীন থাকতে দেবেন না। সেজন্য শেখ হাসিনা যে সামাজিক নিরাপত্তা বলয় তৈরি করেছেন, তার-ই অংশ হিসেবে আজকে দুরারোগ্য ব্যাধিতে আক্রান্তদের অনুদান ও যুব ঋণ দেওয়া হচ্ছে।

চারঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সোহরাব হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও বক্তৃতা করেন উপজেলা চেয়ারম্যান মো. ফখরুল ইসলাম। অনুষ্ঠানে ক্যানসার, কিডনি, লিভার সিরোসিস, স্ট্রোকে প্যারালাইজড, জন্মগত হৃদরোগ, থ্যালাসেমিয়ায় আক্রান্ত ৪০ জন রোগীকে ৫০ হাজার টাকার ৪০টি অনুদানের চেক ও ৪১টি যুব ঋণের চেক এবং দুস্থ নারীদের মাঝে ৫০টি সেলাই মেশিন বিতরণ করা হয়।

/এএম/
সম্পর্কিত
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
গাজীপুরে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় ব্যবসায়ী ও কলেজছাত্র নিহত
গাজীপুরে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় ব্যবসায়ী ও কলেজছাত্র নিহত
হেফাজতে ইসলাম নেতা মাওলানা জুনায়েদের জামিন
হেফাজতে ইসলাম নেতা মাওলানা জুনায়েদের জামিন
রাতে ভক্তদের ভিড় পূজামণ্ডপে
রাতে ভক্তদের ভিড় পূজামণ্ডপে
৭ ম্যাচের সিরিজ ইংল্যান্ডের
৭ ম্যাচের সিরিজ ইংল্যান্ডের
এ বিভাগের সর্বশেষ
গাজীপুরে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় ব্যবসায়ী ও কলেজছাত্র নিহত
গাজীপুরে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় ব্যবসায়ী ও কলেজছাত্র নিহত
হেফাজতে ইসলাম নেতা মাওলানা জুনায়েদের জামিন
হেফাজতে ইসলাম নেতা মাওলানা জুনায়েদের জামিন
ঘরে আটকে কিশোরীকে ধর্ষণ, গ্রেফতার ৫
ঘরে আটকে কিশোরীকে ধর্ষণ, গ্রেফতার ৫
বর্তমান সরকারের আমলে গণমাধ্যমের ওপরে খড়গ নেই: প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী
বর্তমান সরকারের আমলে গণমাধ্যমের ওপরে খড়গ নেই: প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী
সীমান্তে মিয়ানমারের মাইনে প্রাণ গেলো রোহিঙ্গা কিশোরের 
সীমান্তে মিয়ানমারের মাইনে প্রাণ গেলো রোহিঙ্গা কিশোরের