X
শুক্রবার, ২৬ জুলাই ২০২৪
১০ শ্রাবণ ১৪৩১

নওগাঁয় বজ্রাঘাতে দুই নারীসহ ৩ জনের মৃত্যু

নওগাঁ প্রতিনিধি
২৩ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ২৩:২০আপডেট : ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ২৩:২০

নওগাঁয় মাঠে কাজ করার সময় ও নদীতে মাছ ধরতে গিয়ে বজ্রাঘাতে দুই নারীসহ তিন জনের মৃত্যু হয়েছে। শনিবার (২৩ সেপ্টেম্বর) বিকালে মহাদেবপুর ও পোরশা উপজেলায় পৃথক বজ্রাঘাতে তাদের মৃত্যু হয়।

নিহতরা হলেন- মহাদেবপুর উপজেলার রাইগাঁ ইউনিয়নের সিলিমপুর গ্রামের নেপাল পাহানের স্ত্রী শ্রীমতি পাহান (২৭) ও একই গ্রামের মৃত সুবেন্দ্রনাথ পাহানের স্ত্রী সবানী পাহান (৬৫) এবং পোরশার চকবিষ্ণপুর গ্রামের মৃত আবুল হোসেনের ছেলে রফিকুল ইসলাম (৫০)।

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে মহাদেবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোজাফফর হোসেন বলেন, ‘শ্রীমতি পাহান ও সবানী পাহান বাড়ির পাশে মাঠে কাজ করছিলেন। এ সময় বৃষ্টির সঙ্গে হঠাৎ বজ্রাঘাতের ঘটনা ঘটে। এতে ঘটনাস্থলেই তারা মারা যান।’

পোরশা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জহুরুল ইসলাম বলেন, ‘রফিকুল ইসলাম দুপুরে বাড়ি থেকে বের হয়ে পুনর্ভবা নদীতে মাছ ধরতে যান। মাছ ধরার সময় বৃষ্টি শুরু হলে হঠাৎ বজ্রাঘাতের ঘটনা ঘটে। এতে রফিকুল মারা যান।’

/কেএইচটি/
সম্পর্কিত
ইটবোঝাই ট্রাক্টরের ধাক্কায় প্রাণ গেলো শিশুর
ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় অ্যাম্বুলেন্স ও অটোরিকশার সংঘর্ষে দুজন নিহত
জ্বালাও-পোড়াও ও নিহতে মিরপুরের ৩ দিন
সর্বশেষ খবর
শিক্ষার্থীদের ওপর হামলার প্রতিবাদে জাবি শিক্ষকের পদত্যাগ
শিক্ষার্থীদের ওপর হামলার প্রতিবাদে জাবি শিক্ষকের পদত্যাগ
লাইফ সাপোর্টে হাসান আবিদুর রেজা জুয়েল
লাইফ সাপোর্টে হাসান আবিদুর রেজা জুয়েল
ব্যর্থতার দায়ে ঢাকা-১৩ আসনের আ.লীগের ২৭ কমিটি বাতিল
ব্যর্থতার দায়ে ঢাকা-১৩ আসনের আ.লীগের ২৭ কমিটি বাতিল
পুলিশের পোশাক পরে শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা করেছে দুর্বৃত্তরা: প্রতিমন্ত্রী
পুলিশের পোশাক পরে শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা করেছে দুর্বৃত্তরা: প্রতিমন্ত্রী
সর্বাধিক পঠিত
নাটকীয় হারে আর্জেন্টিনার অলিম্পিক যাত্রা শুরু
নাটকীয় হারে আর্জেন্টিনার অলিম্পিক যাত্রা শুরু
মারা গেলেন ব্যান্ড তারকা শাফিন আহমেদ
মারা গেলেন ব্যান্ড তারকা শাফিন আহমেদ
যা ঘটেছিল নরসিংদী কারাগারে, যেভাবে পালালেন ৮২৬ বন্দি
যা ঘটেছিল নরসিংদী কারাগারে, যেভাবে পালালেন ৮২৬ বন্দি
বাংলাদেশে সাম্প্রতিক অস্থিরতা প্রসঙ্গে যা বলছে ভারত
বাংলাদেশে সাম্প্রতিক অস্থিরতা প্রসঙ্গে যা বলছে ভারত
এখনও আঁতকে ওঠেন যাত্রাবাড়ী, কাজলা ও শনির আখড়ার বাসিন্দারা
এখনও আঁতকে ওঠেন যাত্রাবাড়ী, কাজলা ও শনির আখড়ার বাসিন্দারা