X
মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪
১১ আষাঢ় ১৪৩১

খাবার দিতে গিয়ে কুকুরের হামলায় নারীর মৃত্যু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
২০ মার্চ ২০২৩, ১৪:৩৬আপডেট : ২০ মার্চ ২০২৩, ১৪:৫৮

প্রতিবেশীর কয়েকটি কুকুরকে খাবার দিতে গিয়ে প্রাণ হারালেন যুক্তরাষ্ট্রের এক নারী। পুলিশ বলছে, দুটি কুকুর ঝগড়া করছিল। এসময় ওই নারী খাবার দেওয়ার চেষ্টা করলে তারা হামলে পড়ে। নিউ ইয়র্ক পোস্টের খবরে বলা হয়, ইমার্জেন্সি রেসপন্স টিম ও পুলিশের চেষ্টা সত্ত্বেও তাকে বাঁচানো যায়নি।

ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার পেনসিলভেনিয়ায়। নিহত নারীর নাম ক্রিস্টিন পটার। তার বয়স ৩৮।

কুকুরের মালিক ওয়েন্ডি সাবাথনে জানান, তার মা আইসিইউ-তে। একারণে বেশিরভাগ সময় হাসপাতালে থাকতে হচ্ছে। তাই তিনি কুকুরগুলোকে খাবার দেওয়ার অনুরোধ করেন প্রতিবেশী ক্রিস্টিনকে।  

পেরি কাউন্টির প্রশাসনিক কর্মকর্তা রবার্ট রেসলার বলেন, ‘ক্রিস্টিন কুকুরদের আগেও কয়েকবার খাবার দিয়েছেন। সেদিন ছোট ছেলেকে সঙ্গে নিয়ে প্রতিবেশীর বাড়িতে গিয়েছিলেন আবার খাবার দিতে। এসম দুটি গ্রেট ডেন প্রজাতির কুকুর যখন ক্রিস্টিনের ওপর ঝাঁপিয়ে পড়ে। মাকে বাঁচানোর চেষ্টা করেছিল ছেলেটি। এরপর সে দৌড়ে বের হয়ে যায় এবং তার ভাইকে নিয়ে ৯১১ নম্বরে কল দেয়।’

পুলিশ জানায়, বাড়িতে আরও দুইটি কুকুর থাকলেও তারা আক্রমণ করেনি। কেবল গ্রেট ডেন দুটোই হামলে পড়েছিল। আমরা তাদের শান্ত করতে ব্যর্থ হই।   

পৃথিবীর দীর্ঘকায় কুকুর হিসেবে গ্রেট ডেন প্রজাতির একটি কুকুরের রেকর্ড আছে। আপাত দৃষ্টিতে গম্ভীর ও আত্মবিশ্বাসী কুকুরটিকে বন্য শুকর ও হরিণ শিকারের জন্য ব্যবহার করা  হতো। কিন্তু একবার মেজাজ খারাপ হলে ভয়ানক মূর্তি ধারণ করে এগুলো।

 

খাবার দিতে গিয়ে কুকুরের হামলায় নারীর মৃত্যু

 

ব্র্যান্ডন জেইডারসের সঙ্গে ক্রিস্টিনের বোনের বাগদান হয়েছে। তিনি বলেন, ‘পুলিশ আমাকে জানায় দুটি গ্রেট ডেন একে অপরের সঙ্গে লড়াই করছিল। ক্রিস্টিন থামানোর চেষ্টা করলে ওরা আক্রমণ করে বসে।’

কুকুরের মালিক ওয়েন্ডি সাবাথনে বলেন, ‘এই হৃদয়বিদারক ঘটনায় আমি হতবাক। বিশ্বাসই করতে পারছি না এমনটা ঘটেছে।’

আউটলেট অনুসারে, একাধিক ব্যক্তি দাবি করেছেন সাবাথনের কুকুর আগেও এমন আগ্রাসী আচরণ করেছে।

ক্রিস্টিনের বাবা বিল কিফার জানান, ‘দুই-তিন বছর আগে কুকুর তার মেয়েকেও কামড়েছিল।’

স্থানীয়রা জানায়, কয়েক বছর আগে ক্রিস্টিন পটারের স্বামী মারা যান। সড়ক দুর্ঘটনায় ১১ বছর বয়সী এক ছেলেও হারান তিনি। বর্তমানে একজনের সঙ্গে তার বাগদান হয়েছিল। শিগগিরই ভবিষ্যত স্বামীর সঙ্গে ফ্লোরিডা চলে যাওয়ার কথা ছিল তার।

কুকুরের মালিক সাবাথনে অভিযোগের মুখোমুখি হবেন কি-না, তা এখনও স্পষ্ট নয়। সূত্র: নিউ ইয়র্ক পোস্ট

/এসপি/
সম্পর্কিত
কেনিয়ায় বিক্ষোভ: বারাক ওবামার সৎ বোনের ওপর কাঁদানে গ্যাস নিক্ষেপ
পশ্চিমবঙ্গে আরও এক জঙ্গি গ্রেফতার
কেনিয়ায় বিক্ষোভ: পার্লামেন্টের ভেতর পুলিশের গুলিতে নিহত ১০
সর্বশেষ খবর
এমপি আনার হত্যা: গ্যাস বাবুকে ঝিনাইদহ কারাগারে স্থানান্তর
এমপি আনার হত্যা: গ্যাস বাবুকে ঝিনাইদহ কারাগারে স্থানান্তর
ভারত ইস্যুতে সক্রিয় বিএনপিসহ বিরোধী দল ও হেফাজত, কর্মসূচি আসছে
ভারত ইস্যুতে সক্রিয় বিএনপিসহ বিরোধী দল ও হেফাজত, কর্মসূচি আসছে
সরকারি কর্মকর্তাদের দুর্নীতি নিয়ে সংসদে সরব আ.লীগের দুই এমপি
সরকারি কর্মকর্তাদের দুর্নীতি নিয়ে সংসদে সরব আ.লীগের দুই এমপি
কেনিয়ায় বিক্ষোভ: বারাক ওবামার সৎ বোনের ওপর কাঁদানে গ্যাস নিক্ষেপ
কেনিয়ায় বিক্ষোভ: বারাক ওবামার সৎ বোনের ওপর কাঁদানে গ্যাস নিক্ষেপ
সর্বাধিক পঠিত
বানের পানির মতো আসছে রেমিট্যান্স, পাচারের অর্থও কি সঙ্গে আসছে?
বানের পানির মতো আসছে রেমিট্যান্স, পাচারের অর্থও কি সঙ্গে আসছে?
পরীমণিকাণ্ডে চাকরি হারাচ্ছেন পুলিশ কর্মকর্তা সাকলায়েন
পরীমণিকাণ্ডে চাকরি হারাচ্ছেন পুলিশ কর্মকর্তা সাকলায়েন
ইসরায়েলি অভিযান নিয়ে হিজবুল্লাহকে যে সতর্কবার্তা দিলো যুক্তরাষ্ট্র
ইসরায়েলি অভিযান নিয়ে হিজবুল্লাহকে যে সতর্কবার্তা দিলো যুক্তরাষ্ট্র
কোরবানির ১ লাখ ৭২ হাজার পশুর চামড়া গেলো কোথায়?
কোরবানির ১ লাখ ৭২ হাজার পশুর চামড়া গেলো কোথায়?
‘মমতা ব্যানার্জির সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেছি, তিনি মোবাইল ফোন ব্যবহার করেন না’
‘মমতা ব্যানার্জির সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেছি, তিনি মোবাইল ফোন ব্যবহার করেন না’