X
মঙ্গলবার, ০৫ মার্চ ২০২৪
২১ ফাল্গুন ১৪৩০

রাজনৈতিক কর্মসূচি শিক্ষার্থীদের সংকট বাড়াচ্ছে

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
২৫ নভেম্বর ২০২৩, ২০:৪৯আপডেট : ২৫ নভেম্বর ২০২৩, ২০:৫৪

রাজনৈতিক কর্মসূচির ফলে শিক্ষার্থীদের সংকট বাড়ছে বলে মনে করেন শিক্ষাবিদরা। হরতাল-অবরোধের মতো কর্মসূচি চলমান থাকার কারণে যথাযথ মূল্যায়ন করা যাচ্ছে না। এতে সিলেবাস শেষ করা যাচ্ছে না। তরুণরা অনেক মেধাবী হলেও তাদের মেধার মূল্যায়ন হচ্ছে না।

দেশের শীর্ষস্থানীয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল বাংলা ট্রিবিউনের আয়োজনে ‘শিক্ষার্থীদের ওপর রাজনৈতিক কর্মসূচির প্রভাব' শীর্ষক বৈঠকিতে এসব কথা বলেন বক্তারা।

শনিবার (২৫ নভেম্বর) বিকালে শুরু হয় বাংলা ট্রিবিউনের নিয়মিত এই আয়োজন।

এটিএন নিউজের বার্তাপ্রধান প্রভাষ আমিনের সঞ্চালনায় বৈঠকিতে অংশ নেন বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক, ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টস বাংলাদেশের (ইউল্যাব) রেজিস্ট্রার লেফটেন্যান্ট কর্নেল (অব.) ফয়জুল ইসলাম ও ফিরোজা বাশার আইডিয়াল কলেজের অধ্যক্ষ শেখ মো. শহিদুল ইসলাম।

শেখ মো. শহিদুল ইসলাম বলেন, তরুণদের মেধাকে মূল্যায়ন করার চেষ্টা করতে হবে। সবাই বিসিএস-মুখী হয়ে যাচ্ছে। একজন চিকিৎসক-ইঞ্জিনিয়ারের কাছ থেকে দেশ কিছু পাচ্ছে না। এটা বড় প্রশ্নের জায়গা।

তিনি আরও বলেন, অভিভাবক হিসেবে আমরা খুব চিন্তিত। অভিভাবকদের মধ্যে উদ্বেগ-উৎকণ্ঠা আছে। আসলেই কী হবে? আমরা সিলেবাস শেষ করতে পারছি না। যারা ২০২৪ সালে এইচএসসি-এসএসসি দেবে তাদের নির্ধারিত সময়ে ক্লাস শুরু হয়নি। তাতে সিলেবাসে একটা ঘাটতি থেকে যাচ্ছে। এরপর শেষ সময় এসে আমরা তাদের পড়াতে পারছি না। এইচএসসির যে সিলেবাস দুই বছরে শেষ করার কথা, সেটা আমাদের শেষ করতে হচ্ছে ১২ থেকে ১৩ মাসে। সেটাও ঠিকমতো পাচ্ছি না। ডিসেম্বরে সব প্রতিষ্ঠানে প্রি-টেস্ট পরীক্ষা নেওয়ার কথা, কীভাবে নিবো আমরা? আমরা তো সেকেন্ড ইয়ারের ক্লাসই শুরু করতে পারলাম না। ফেব্রুয়ারিতে টেস্ট পরীক্ষা। ক্লাসই করাতে পারলাম না, পরীক্ষা কীভাবে নেবো?

সাইফুল হক বলেন, একেবারে নার্সারি থেকে শুরু করে বিশ্ববিদ্যালয় পর্যন্ত লাখ লাখ শিক্ষার্থী আছে, তাদের কাছে এটা একটা মনস্তাত্ত্বিক সমস্যা হয়। শিক্ষার্থীরা যখন বিদ্যালয়ে যেতে পারে না, নির্দিষ্ট সময়ে কোর্স শেষ করতে পারে না, নির্দিষ্ট সময়ে পরীক্ষা দেওয়া যায় না, তখন তার মধ্যে একধরনের হতাশা ও মনস্তাত্ত্বিক ক্রিয়া-প্রতিক্রিয়া কাজ করে।

তিনি আরও বলেন, একবিংশ শতাব্দী থেকে এখন পর্যন্ত রাজনৈতিক সংকটগুলো রাজপথের লড়াইয়ের মধ্যে দিয়ে নিষ্পন্ন কেন করতে হবে? কেন আমরা আলাপ-আলোচনা করে, কথাবার্তা বলে, একটা দায়িত্বশীল আচরণ করে সম্পন্ন করতে পারবো না?

লেফটেন্যান্ট কর্নেল (অব.) ফয়জুল ইসলাম বলেন, ২৮ অক্টোবরের পর রাজনৈতিক কর্মসূচির প্রেক্ষিতে আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি কীভাবে শিক্ষার্থীদের পাঠদান এগিয়ে নেওয়া যায়। আমরা যেভাবেই কাজটি করি না কেন, শিক্ষার সঙ্গে সম্পৃক্ত একজন ব্যক্তি হিসেবে বলবো, এটি যথেষ্ট নয়। কেননা আমাদের শিক্ষার্থীরা মুক্তমনে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আসতে চায়। কিন্তু সেটা তারা পারছে না।

তিনি আরও বলেন, আমরা রবি ও সোমবার অনলাইনে শিক্ষা কার্যক্রম চালাচ্ছি, মঙ্গলবার সশরীরে ক্লাস নিচ্ছি। কোনও কারণে যদি সেটা সম্ভব না হয়, সে জন্য আমাদের শুক্র ও শনিবারেও ক্লাসের ব্যবস্থা করতে হচ্ছে। এ ক্ষেত্রে যে সমস্যা হচ্ছে, অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রম উচ্চশিক্ষার ক্ষেত্রে যথেষ্ট নয়। কেননা উচ্চ শিক্ষা শুধু ক্লাসরুমে কিংবা অনলাইনে দেওয়া যাবে, সেটাতে সফলতা আসে না।

বর্তমানে যেসব রাজনৈতিক কর্মসূচি দেখতে পাই, তাতে সামগ্রিকভাবে শিক্ষার্থীদের যথাযথ শিক্ষা ব্যাহত হচ্ছে বলে জানান তিনি।

এই বৈঠকি সরাসরি সম্প্রচার করেছে বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল এটিএন নিউজ। এতে সহযোগিতা করেছে ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টস বাংলাদেশ (ইউল্যাব)।

আরও পড়ুন:

‘আমাদের জ্ঞানভিত্তিক রাজনীতি এখনও গড়ে ওঠেনি’

‘শান্তিপূর্ণভাবে লাখ লাখ মানুষ জমায়েত হলেও আন্দোলন মনে করা হয় না’

‘রাজনৈতিক কার্যক্রমে যথাযথ শিক্ষা ব্যাহত হচ্ছে’

‘শিক্ষার্থীদের ওপর রাজনৈতিক কর্মসূচির প্রভাব' শীর্ষক বৈঠকি শুরু

/এসও/এনএআর/
সম্পর্কিত
৭ তারিখের মধ্যে বেতনের দাবিতে সড়কে পোশাক শ্রমিকরা
নতুন জ্ঞান অনুসন্ধানে গবেষকদের প্রতি আহ্বান জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের
যত্রতত্র গড়ে ওঠা অনিবন্ধিত মাদ্রাসা নিয়ন্ত্রণের সুপারিশ ডিসিদের
সর্বশেষ খবর
ছাত্রকে গুলি করা সেই শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা
ছাত্রকে গুলি করা সেই শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা
কামরাঙ্গীরচরে ২৪ হোটেল-রেস্তোরাঁয় অভিযানে আটক ২৪
কামরাঙ্গীরচরে ২৪ হোটেল-রেস্তোরাঁয় অভিযানে আটক ২৪
হামাসের বিরুদ্ধে ইসরায়েলে যৌন সহিংসতার অভিযোগ জাতিসংঘের
হামাসের বিরুদ্ধে ইসরায়েলে যৌন সহিংসতার অভিযোগ জাতিসংঘের
৭ তারিখের মধ্যে বেতনের দাবিতে সড়কে পোশাক শ্রমিকরা
৭ তারিখের মধ্যে বেতনের দাবিতে সড়কে পোশাক শ্রমিকরা
সর্বাধিক পঠিত
শিক্ষামন্ত্রীর বক্তব্য প্রত্যাহারের দাবি খেলাফত মজলিসের
শিক্ষামন্ত্রীর বক্তব্য প্রত্যাহারের দাবি খেলাফত মজলিসের
৩ কারণে কাক কমছে ঢাকায়, পরিবেশ বিপর্যয়ের আশঙ্কা
৩ কারণে কাক কমছে ঢাকায়, পরিবেশ বিপর্যয়ের আশঙ্কা
সাত মসজিদ রোডের সব বুফে রেস্তোরাঁ বন্ধ
সাত মসজিদ রোডের সব বুফে রেস্তোরাঁ বন্ধ
বাংলাদেশ ভ্রমণ শেষে ভারতে গিয়েই সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার ব্রাজিলিয়ান তরুণী
বাংলাদেশ ভ্রমণ শেষে ভারতে গিয়েই সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার ব্রাজিলিয়ান তরুণী
ইউক্রেন অবশ্যই রাশিয়ার অংশ: পুতিন মিত্র
ইউক্রেন অবশ্যই রাশিয়ার অংশ: পুতিন মিত্র