X
মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪
১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

দায় এড়াতে ও প্রকৃত দোষীকে আড়াল করতে অভিযান: টিআইবি

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
১৪ মার্চ ২০২৪, ১৭:৩৯আপডেট : ১৪ মার্চ ২০২৪, ১৭:৪৩

নিয়মিত বিরতিতে অগ্নিকাণ্ড ও মর্মান্তিক প্রাণহানির ঘটনায় সংশ্লিষ্ট সব পক্ষের দায় এড়িয়ে যাওয়ার সংস্কৃতির সমালোচনা করে ক্ষোভ প্রকাশ করেছে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি)। রাজনৈতিক সদিচ্ছার অভাব, দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রতিষ্ঠানের নিষ্ক্রিয়তা, সমন্বয়হীনতা, দুর্নীতি, জবাবদিহির অনুপস্থিতি ও বিচারহীনতাকে মর্মান্তিক অগ্নিকাণ্ডের পুনরাবৃত্তির কারণ হিসেবে উল্লেখ করে টিআইবি। সংস্থাটি দায়িত্বে অবহেলা ও অনিয়ম-দুর্নীতির সঙ্গে সম্পৃক্ত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিতের আহ্বান জানিয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৪ মার্চ) গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে বলা হয়, গত ২৯ ফেব্রুয়ারি রাতে বেইলি রোডে অবস্থিত গ্রিন কোজি কটেজ ভবনে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় ৪৬ জনের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় গণমাধ্যমে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে অগ্নিকাণ্ডের পুনরাবৃত্তি রোধে উদ্যোগী না হয়ে দায় এড়ানোর চেষ্টার সমালোচনা করেন টিআইবির নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান। তিনি বলেন, ‘বিভিন্ন সময়ে সংঘটিত অগ্নিকাণ্ড প্রতিরোধে আদালত বেশ কিছু নির্দেশনা প্রদান করেছেন এবং নানা সময়ে গঠিত তদন্ত কমিটি ও টাস্কফোর্স বেশ কিছু সুপারিশও প্রস্তাব করেছে। কিন্তু নিয়ন্ত্রণ ও তদারকি সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানগুলোর নিষ্ক্রিয়তা, দায়িত্বহীনতা, সমন্বয়হীনতা, পরিকল্পনার অভাব, অনিয়ম-দুর্নীতি এবং কর্মকর্তাদের জবাবদিহির ঘাটতির কারণে এসব সুপারিশের বেশিরভাগ বাস্তবায়ন হয়নি। অন্যদিকে, আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী, রাজউক, সিটি করপোরেশন, ফায়ার সার্ভিসসহ দায়িত্বপ্রাপ্ত বিভিন্ন সংস্থা দুর্ঘটনা ঘটে যাওয়ার পর বরাবরের মতো সমস্যার মূল কারণকে গুরুত্ব না দিয়ে লোকদেখানো ‘অভিযান’ পরিচালনা ও এমন ব্যক্তিদের গ্রেফতার করছে। যাদের নির্ধারিত দায়িত্বের সঙ্গে দুর্ঘটনার মূল কারণের কোনও সম্পৃক্ততা নেই বললেই চলে। ফলে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ নিজেদের দায় এড়ানো ও প্রকৃত দোষীকে আড়াল করার চেষ্টা অব্যাহত রেখেছে।’

ড. ইফতেখারুজ্জামান বলেন, ‘ধারাবাহিক এই অগ্নিকাণ্ড ও প্রাণহানির পিছনে মূল কারণ হিসেবে আমরা দেখতে পাই, ভবন নির্মাণে সংশ্লিষ্ট আইন অনুসরণ না করা এবং মালিক কর্তৃক ভবনে অনুমোদনবহির্ভূত কার্যক্রম পরিচালনা। এ সকল বিষয় তদারকির দায়িত্বে থাকা কর্তৃপক্ষ হিসেবে রাজউক, সিটি করপোরেশন ও ফায়ার সার্ভিস এ সকল অনিয়মের বিষয়ে অবহিত। এ সকল প্রতিষ্ঠানের কিছু কর্মকর্তা-কর্মচারী অনিয়ম ও দুর্নীতির মাধ্যমে ত্রুটিপূর্ণ ভবনের অনুমোদন ও যথাযথভাবে তদারকি না করে বাস্তবে যোগসাজশের মাধ্যমে ঝুঁকিপূর্ণ ব্যবসায়িক কার্যক্রম পরিচালনা করতে সহায়তা করে আসছে। প্রকৃত অপরাধীরা বিচারহীনতা ভোগ করছে।’

ইতোপূর্বে পুরানো ঢাকায় একাধিকবার সংঘটিত ভয়াবহ অগ্নিদুর্ঘটনার পর টিআইবি ২০২০ সালে ‘নিমতলী, চুড়িহাট্টা এবং অতঃপর : পুরানো ঢাকার অগ্নিনিরাপত্তা নিশ্চিতে সুশাসনের চ্যালেঞ্জ’ শীর্ষক গবেষণা পরিচালনা করেছিল। এই গবেষণায় দেখা যায়, বারবার মর্মান্তিক অগ্নিকাণ্ড সংঘটিত হওয়ার পরও রাজনৈতিক সদিচ্ছার ঘাটতি এবং ব্যবসায়ী, ভবন মালিক, জনপ্রতিনিধি ও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের যোগসাজশ ও অনিয়ম-দুর্নীতির মাধ্যমে আবাসিক এলাকায় অবৈধভাবে রাসায়নিক পদার্থের গুদাম ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান স্থাপন করা হয়।

উল্লেখিত গবেষণাটি পুরানো ঢাকায় দাহ্য পদার্থ থেকে সংঘটিত অগ্নিকাণ্ডকে বিবেচনায় নিয়ে করা হলেও ওই গবেষণায় পাওয়া অভিজ্ঞতা ও ফলাফল ঢাকা শহরের অন্যান্য অগ্নিদুর্ঘটনার ক্ষেত্রেও প্রাসঙ্গিক উল্লেখ করে টিআইবির নির্বাহী পরিচালক বলেন, ‘অগ্নিকাণ্ডের কার্যকর প্রতিরোধের লক্ষ্যে স্বল্প, মধ্য ও দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা গ্রহণ ও বাস্তবায়ন নিশ্চিতের পাশাপাশি অবিলম্বে আবাসিক এলাকায় বাণিজ্যিক ভবন এবং ঝুঁকিপূর্ণ বাণিজ্যিক কার্যক্রম নিয়ন্ত্রণে তদারকি ব্যবস্থা জোরদার করতে হবে। আমরা দেখছি, অগ্নিকাণ্ডের জন্য প্রকৃত দায়ী ব্যক্তিদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিত করতে না পারায় নির্মম প্রাণহানির ঘটনা স্বাভাবিকতায় রূপ নিয়েছে। বিষয়টি সরকারসহ সংশ্লিষ্টদের কাছে সাধারণ মানুষের জীবনের মূল্য না থাকার দুঃখজনক উদাহরণ। নিরপরাধ ব্যক্তিদের হয়রানি না করে দায়িত্বে অবহেলা ও অনিয়ম-দুর্নীতির সাথে সম্পৃক্ত সকলের বিরুদ্ধে জবাবদিহি ও শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানাচ্ছে টিআইবি। প্রয়োজনীয় আইনের সংস্কারের মাধ্যমে সকল অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারগুলোকে পর্যাপ্ত ক্ষতিপূরণ প্রদান ও পুনর্বাসনের ব্যবস্থা করার জন্যও জোর দাবি জানানো হয়।

/জেইউ/এমএস/
সম্পর্কিত
অগ্নিকাণ্ডের পরও পাল্টায়নি মহানগর শপিং কমপ্লেক্স
পুড়ে যাওয়া কৃষি মার্কেটের কী অবস্থা এখন?
ক্ষমতাবানদের দুর্নীতির শ্বেতপত্র প্রকাশের আহ্বান টিআইবির
সর্বশেষ খবর
মুহুরী নদীর পানি বিপদসীমার ৫০ সেন্টিমিটার ওপরে
মুহুরী নদীর পানি বিপদসীমার ৫০ সেন্টিমিটার ওপরে
ঢামেকে কারাবন্দির মৃত্যু
ঢামেকে কারাবন্দির মৃত্যু
যে কারণে স্থগিত হলো চাঁদপুরের দুই উপজেলার নির্বাচন
যে কারণে স্থগিত হলো চাঁদপুরের দুই উপজেলার নির্বাচন
রাজধানীতে ভবন থেকে পড়ে ২ নির্মাণশ্রমিকের মৃত্যু
রাজধানীতে ভবন থেকে পড়ে ২ নির্মাণশ্রমিকের মৃত্যু
সর্বাধিক পঠিত
সর্বোচ্চ উপকার পেতে কাঠবাদাম কীভাবে খাবেন?
সর্বোচ্চ উপকার পেতে কাঠবাদাম কীভাবে খাবেন?
বৃষ্টি থাকবে মঙ্গলবারও  
বৃষ্টি থাকবে মঙ্গলবারও  
এবারও ধরাছোঁয়ার বাইরে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পরিচালনা কমিটি
এবারও ধরাছোঁয়ার বাইরে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পরিচালনা কমিটি
ঝড়-বৃষ্টি উপেক্ষা করে রাজউকের উচ্ছেদ অভিযান
ঝড়-বৃষ্টি উপেক্ষা করে রাজউকের উচ্ছেদ অভিযান
রাবিতে খাবারে সিগারেট: আন্দোলন-ভাঙচুরে জড়িতদের বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত
রাবিতে খাবারে সিগারেট: আন্দোলন-ভাঙচুরে জড়িতদের বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত