X
শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪
৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

বাস যেখানে সেখানে থামানো যাবে না, অমান্য করলেই ব্যবস্থা

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
১২ মে ২০২৪, ১১:৪৫আপডেট : ১২ মে ২০২৪, ১১:৪৫

রাজধানীতে যানজট কমাতে ও সড়কে শৃঙ্খলা রক্ষায় মহাখালী থেকে ছেড়ে যাওয়া আন্তঃজেলা বাসগুলো ঢাকার মধ্যে যত্রতত্র না থামানোর নির্দেশ দিয়েছে ঢাকা মহানগর পুলিশ ট্রাফিকের গুলশান বিভাগ। শনিবার (১২ মে) সকালে ট্রাফিকের গুলশান বিভাগের ডিসি আব্দুল মোমেন বাংলা ট্রিবিউনকে একথা জানান।

আব্দুল মোমেন বলেন, মহাখালি থেকে ছেড়ে যাওয়া আন্তঃনগর বাসগুলো টার্মিনাল থেকেই লোক উঠানোর জন্য থেমে থাকে। এভাবেই থেমে থেমে আব্দুল্লাহপুর পর্যন্ত যাওয়ায় সড়কের বিভিন্ন স্থানে একটা যানজটের সৃষ্টি করে। সড়কে এই জট দূর করতে দীর্ঘদিন ধরে পরিবহন মালিক ও শ্রমিক সংগঠনগুলো আছে তাদের সঙ্গে কথা বলে আসছি। তারা কথা দিয়ে আসছিল বাসগুলো যাত্রী উঠানামায় শৃঙ্খলা মানবে। সবশেষ এক সপ্তাহ সময় চেয়েছিল। সেটা শেষ হচ্ছে। তাই আজ থেকেই এই নির্দেশনা দিয়েছি। আশা করি কিছুটা হলেও সড়কে ভোগান্তি দূর হবে।

ধাপে ধাপে আরও কিছু উদ্যোগ নেওয়া হবে  জানিয়ে আব্দুল মোমেন বলেন,  সড়কে শৃঙ্খলা ফেরানোর জন্য পরিবহনের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সব মালিক শ্রমিক ও যাত্রীদেরও চেষ্টা থাকতে হবে। আন্তঃজেলা বাসগুলো ফেরার পথে যাত্রীরা যেখানে সেখানে নামার জন্য বাস চালকদের সঙ্গে ঝগড়া পর্যন্ত করে।

এর আগে গতকাল শনিবার (১১ মে) রাতে ট্রাফিকের গুলশান বিভাগের ফেসবুক পেজ থেকে এক পোস্টে বলা হয়, আগামীকাল (১২ মে) মহাখালী বাস টার্মিনাল থেকে গেটলক সিস্টেম চালু হতে যাচ্ছে। এ ব্যাপারে পরিবহনের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সব অংশীজন সার্বিক সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছেন।

নতুন নির্দেশনা অনুযায়ী মহাখালী থেকে বাস ছেড়ে প্রথমে কাকলী হয়ে কুর্মিটেলা, তারপর খিলক্ষেত এবং সর্বশেষ আব্দুল্লাহপুর থেকে যাত্রী নিয়ে নিজ নিজ গন্তব্যে চলে যাবে।

যেসব পরিবহন এই বলয়ের বাইরে গিয়ে আইন অমান্য করে, রাস্তায় প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করে যত্রতত্র বাস থামিয়ে যাত্রী ওঠা-নামা করবে তাদের বিরুদ্ধে অত্যন্ত কঠোর আইনি পদক্ষেপ নেওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছে গুলশান ট্রাফিক বিভাগ।

এসময় নগরবাসীকে এসব স্থান ছাড়া অন্য কোনও স্থান থেকে হাত উঠিয়ে বাসে না উঠার অনুরোধ জানানো হয়। 

/জেডএ/এফএস/
সম্পর্কিত
বাস টার্মিনালে বিআরটিএর তদারকি টিম, অনিয়ম হলেই ব্যবস্থা
ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে ১০ কিলোমিটার যানজট, বাড়ছে আরও
বেড়েছে আদার দাম, উচ্চমূল্যে অপরিবর্তিত পেঁয়াজ-রসুন
সর্বশেষ খবর
অবশেষে বদলি হলেন সাতক্ষীরা পৌরসভার সেই সিইও
অবশেষে বদলি হলেন সাতক্ষীরা পৌরসভার সেই সিইও
কোরবানির বর্জ্য অপসারণে নিয়ন্ত্রণ কক্ষ খুলেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি
কোরবানির বর্জ্য অপসারণে নিয়ন্ত্রণ কক্ষ খুলেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি
রাতে উত্তরের মহাসড়কে যানবাহনের চাপ আরও বেড়েছে
রাতে উত্তরের মহাসড়কে যানবাহনের চাপ আরও বেড়েছে
ঈদে চামড়া ব্যবসায়ীদের নজরদারিতে রাখবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী
ঈদে চামড়া ব্যবসায়ীদের নজরদারিতে রাখবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী
সর্বাধিক পঠিত
ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণিতে মূল্যায়ন হবে যেভাবে
ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণিতে মূল্যায়ন হবে যেভাবে
শ্রমিকদের অবরোধে বন্ধ ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক
শ্রমিকদের অবরোধে বন্ধ ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক
শেবাগের সমালোচনার জবাবে যা বললেন সাকিব
শেবাগের সমালোচনার জবাবে যা বললেন সাকিব
১৯ বল ব্যাট করে ওমানকে হারালো ইংল্যান্ড
১৯ বল ব্যাট করে ওমানকে হারালো ইংল্যান্ড
সেন্টমার্টিনে খাদ্যসংকট, কক্সবাজার থেকে গেলো পণ্যবোঝাই জাহাজ
সেন্টমার্টিনে খাদ্যসংকট, কক্সবাজার থেকে গেলো পণ্যবোঝাই জাহাজ