X
বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪
৪ আষাঢ় ১৪৩১

ডাকাতি করতে গিয়ে কিশোরীকে ধর্ষণ, গ্রেফতার ৪

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
২০ মে ২০২৪, ১৪:২৩আপডেট : ২০ মে ২০২৪, ১৪:২৭

সংঘবদ্ধ একটি ডাকাত চক্রের ‘মূল হোতা’ আব্দুল্লাহ। চক্রে ১০ থেকে ১২ জন সদস্য রয়েছে। আব্দুল্লাহর নেতৃত্বে তারা নারায়ণগঞ্জের বিভিন্ন এলাকায় ডাকাতি করে আসছিল। চক্রটি গত ১৫ মে রাতে ডাকাতির উদ্দেশ্যে বের হয়। ওই কিশোরীর ঘরে প্রবেশ করে। কিন্তু ঘরে মূল্যবান জিনিসপত্র না পেয়ে ক্ষোভে কিশোরীর হাত-পা বেঁধে বাড়ির পাশে একটি ফাঁকা ঘরে নেয়। সেখানে মুখে ওড়না পেঁচিয়ে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ করে। ঘটনা কাউকে জানালে ভুক্তভোগী ও তার পরিবারকে হত্যার হুমকি দেয়।

সোমবার (২০ মে) রাজধানীর কাওরান বাজার র‍্যাব মিডিয়া সেন্টারে এক সংবাদ সম্মেলনে এ সব তথ্য জানান সংস্থাটির আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার আরাফাত ইসলাম। এর আগে রবিবার (১৯ মে) রাতে ওই চক্রের চার সদস্যকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতার ব্যক্তিরা হলো– মো. আব্দুল্লাহ (২৪), মো. মতিন (৩৫), চাঁন মিয়া (২৮) ও মো. আয়নাল (২৫)। তাদের কাছ থেকে ভুক্তভোগীর মোবাইল ফোনসহ একটি দেশীয় ওয়ান শুটার গান, শাবল, দা, রামদা ও ডাকাতির কাজে ব্যবহৃত সিএনজি উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতার ব্যক্তিদের জিজ্ঞাসাবাদের বরাত দিয়ে আরাফাত ইসলাম বলেন, ‘১৫ মে রাত আনুমানিক আড়াইটার দিকে ডাকাতির উদ্দেশ্যে ভুক্তভোগীর বাড়িতে যায় ওই চার জন। আব্দুল্লাহ ও মতিন জানালা ভেঙে ঘরে প্রবেশ করে। এ সময় ভুক্তভোগী ও তার মায়ের ঘুম ভেঙে গেলে তারা চিৎকার করে। এতে অস্ত্রের মুখে তাদের জিম্মি করা হয়। পরে ঘরের দরজা খুলে দিলে চাঁন মিয়া ও আয়নালসহ অন্যান্য সহযোগীরা দেশীয় অস্ত্রসহ ঘরে ঢোকে।’

তিনি বলেন, ‘অভিযুক্তরা ভয়ভীতি দেখিয়ে ভুক্তভোগীর মাসহ ঘরে উপস্থিত সবার হাত, পা ও মুখ রাঁধে। ঘরে মূল্যবান জিনিসপত্র না পেয়ে ক্ষোভে ভুক্তভোগীকে বাড়ির পাশের ফাঁকা ঘরে নিয়ে ধর্ষণ করে। পরে গুরুতর অবস্থায় কিশোরীকে রেখে তারা পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় ওই কিশোরী মামলা দায়ের করলে অভিযুক্তরা আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর গ্রেফতার এড়াতে নারায়ণগঞ্জের বিভিন্ন স্থানে আত্মগোপন করে।’

/কেএইচ/আরকে/
সম্পর্কিত
পুলিশ পরিচয়ে ‘ব্যাগ তল্লাশি ও টাকা ছিনতাই’, অবসরপ্রাপ্ত সেনাসদস্য গ্রেফতার
রাজধানীতে ব্যবসায়ীর ৪৬ লাখ টাকা উদ্ধারসহ গ্রেফতার ১
মেঘনায় ১১টি বাল্কহেডে অভিযান চালিয়ে ২২ জন গ্রেফতার
সর্বশেষ খবর
শেষ মুহূর্তে নাটকীয় জয় পর্তুগালের
শেষ মুহূর্তে নাটকীয় জয় পর্তুগালের
ঈদের তৃতীয় দিনে ৩১টি নাটকও টেলিছবি
ঈদের তৃতীয় দিনে ৩১টি নাটকও টেলিছবি
সাগর ও পাহাড় দেখতে গিয়ে দুই পর্যটকের মৃত্যু
সাগর ও পাহাড় দেখতে গিয়ে দুই পর্যটকের মৃত্যু
বাংলাদেশ থেকে নারী অভিবাসন কম কেন?
বাংলাদেশ থেকে নারী অভিবাসন কম কেন?
সর্বাধিক পঠিত
তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ দ্বারপ্রান্তে, ভারতীয় জ্যোতিষের ভবিষ্যদ্বাণী
তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ দ্বারপ্রান্তে, ভারতীয় জ্যোতিষের ভবিষ্যদ্বাণী
থমথমে ‘তুফান’, অন্তর্জালে ‘দরদ’ মুগ্ধতা
থমথমে ‘তুফান’, অন্তর্জালে ‘দরদ’ মুগ্ধতা
অতি ভারী বৃষ্টির শঙ্কা
অতি ভারী বৃষ্টির শঙ্কা
২৪ বছর পর রাষ্ট্রীয় সফরে উত্তর কোরিয়ায় পুতিন
২৪ বছর পর রাষ্ট্রীয় সফরে উত্তর কোরিয়ায় পুতিন
পাকিস্তানের চেয়ে ভারতের বেশি পারমাণবিক অস্ত্র রয়েছে: রিপোর্ট
পাকিস্তানের চেয়ে ভারতের বেশি পারমাণবিক অস্ত্র রয়েছে: রিপোর্ট