আশকোনা কোয়ারেন্টাইন কেন্দ্রে সাংবাদিকদের অবস্থান না করার অনুরোধ

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৬:৫০, ফেব্রুয়ারি ১৫, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:৩৩, ফেব্রুয়ারি ১৫, ২০২০

মহাখালীতে আইইডিসিআর ভবনে সংবাদ সম্মেলনরাজধানীর আশকোনা হজক্যাম্পে অস্থায়ীভাবে নির্মিত কোয়ারেন্টাইন কেন্দ্রে চীনের উহানফেরত বাংলাদেশিদের ১৪ দিনের ইনকিউবেশন পিরিয়ড আজ শনিবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) শেষ হয়েছে। তাদের আজ ও আগামীকাল রবিবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) বাড়ি পাঠানো হবে। নাগরিকদের বাড়ি ফেরার ক্ষেত্রে যেন কোনও অসুবিধা না হয় এ জন্য কোয়ারেন্টাইনের শেষ কার্যক্রম সবার জন্য উন্মুক্ত রাখা হয়নি। সেখানে সাংবাদিকদেরও অবস্থান না করার অনুরোধ জানানো হয়েছে।

শনিবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) মহাখালীতে আইইডিসিআর এর আফিসে করোনা ভাইরাস বা কোভিড-১৯ নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান জাতীয় রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর) এর পরিচালক অধ্যাপক ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা। পরে এ বিষয়ে জানাতে গণমাধ্যমে বিজ্ঞপ্তিও পাঠানো হয়।
সংবাদ সম্মেলনে ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা বলেন, ‘কোয়ারেন্টাইন শেষ করা উহানফেরত ৩১২ নাগরিকের ব্যক্তিগত পরিচয় গোপন রাখা আমাদের সবার দায়িত্ব।’
তিনি বলেন, ‘স্পর্শকাতর এই জরুরি জনস্বাস্থ্য পরিস্থিতি মোকাবিলায় সাংবাদিক এবং সংশ্লিষ্ট সবাইকে সংবেদনশীলতার সঙ্গে সহযোগিতার আহ্বান জানাচ্ছি। পরিস্থিতি মোকাবিলায় আমরা শুরু থেকেই সাংবাদিকদের সহযোগিতা পেয়ে আসছি। এ জন্য তাদের প্রতি কৃতজ্ঞ।’
পরে বিজ্ঞপ্তি ও সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এ বিষয়ে আরও তথ্য জানানো হবে বলেও বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়। এর আগে একাধিকবার কোভিড-১৯ পরীক্ষা করার জন্য যাদের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে বা হবে তাদের নাম-ঠিকানা এবং ছবি প্রকাশ না করারও আহ্বান জানিয়েছে আইইডিসিআর।
মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা বলেন, ‘গোপনীয়তা রক্ষা করতে না পারলে, যাদের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে তারা সামাজিকভাবে হেনস্তার শিকার হতে পারেন।’ গণমাধ্যমের প্রতি অনুরোধ জানিয়ে তিনি বলেন, ‘প্রকাশিত সংবাদে এক শিক্ষার্থীর নাম-ঠিকানা, এমনকি ছবিও দেখেছি। আপনাদের প্রতি আহ্বান, এ বিষয়ে একটু খেয়াল রাখবেন; প্রচার-প্রচারণার কারণে কেউ যেন সামাজিকভাবে হেয় প্রতিপন্ন না হন।’

 

/জেএ/আইএ/

সম্পর্কিত

লাইভ

টপ