X
সকল বিভাগ
সেকশনস
সকল বিভাগ

আইসিইউ আর কেবিনে আসা-যাওয়ার মাঝে রওশন এরশাদ

আপডেট : ২৬ নভেম্বর ২০২১, ১৮:৩৭

শারীরিক অবস্থার উন্নতি হয়নি সংসদের বিরোধী দলীয় নেতা রওশন এরশাদের। গত ৫ নভেম্বর থেকে ব্যাংককের বামরুনগ্রাদ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন জাতীয় পার্টির চিফ প্যাট্রন। সেখানে আইসিইউ ও কেবিনে আসা-যাওয়ার মাঝেই রয়েছেন তিনি। শারীরিক অবস্থাও স্বাভাবিক নয় রওশন এরশাদের।

বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) ও আজ  শুক্রবার (২৬ নভেম্বর) দলের ও পারিবারিক একাধিক দায়িত্বশীলের সঙ্গে কথা বলে এ তথ্য জানা গেছে।

শুক্রবার সন্ধ্যায় জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জিএম কাদের বাংলা ট্রিবিউনকে জানান, রওশন এরশাদের শারীরিক অবস্থার খুব একটা উন্নতি নেই। আইসিইউ ও কেবিনে আসা-যাওয়ার মধ্যে রয়েছে তিনি। শরীর একটু ভালো হলে কেবিনে আনা হলেও আবার অবনতি ঘটলে আইসিইউ সাপোর্ট প্রয়োজন হয়।

জিএম কাদের বলেন, ‘প্রতিদিনই তার শারীরিক অবস্থার বিষয়ে খোঁজ খবর রাখি। ব্যাংককে যোগাযোগ হয়। আমরা সবাই দোয়া করছি, তিনি যেন সুস্থ হয়ে ফিরে আসেন।’

জাতীয় পার্টির প্রভাবশালী সূত্র জানায়, ঢাকার মতো ব্যাংককেও সারভাইভ করছেন রওশন এরশাদ। উন্নতি বলতে তেমন কিছু নেই।

জানতে চাইলে জাপার কো-চেয়ারম্যান কাজী ফিরোজ রশীদ বলেন, ‘এখন অনেকটা ভালো আছেন ম্যাডাম। অক্সিজেন লাগছে, তবে সেটা দেশের চেয়ে ভালো অবস্থা কিছুটা। আমরা খোঁজ খবর রাখার চেষ্টা করছি।’

গত ৫ নভেম্বর সন্ধ্যা ৬টা ২৫ মিনিটে এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে ঢাকার শাহজালাল বিমানবন্দর থেকে থাইল্যান্ডের ব্যাংকের উদ্দেশে যান রওশন এরশাদ। সেখানে জাতীয় সংসদের বিরোধী দলীয় এই নেতার সঙ্গে আছেন ছেলে রাহগির আলমাহি সাদ এরশাদ এবং পুত্রবধূ মাহিমা এরশাদ। ৭ নভেম্বর রাহগির আলমাহি সাদ এরশাদকে উদ্ধৃত করে বিরোধী দলীয় নেতার একান্ত সহকারী মামুন হাসান বাংলা ট্রিবিউনকে জানিয়েছিলেন, ‘ম্যাডামের (রওশন এরশাদ) শারীরিক অবস্থা আগের চেয়ে ভালো। ৬ নভেম্বর শনিবার রাত থেকে তিনি কথা বলছেন।’ যদিও এ প্রসঙ্গে পরবর্তীকালে মামুন হাসান আর কিছু জানাতে পারেননি।

রওশন এরশাদকে গত  ৫ নভেম্বর এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে থাইল্যান্ড নিয়ে যাওয়া হয় গত কয়েকদিন টানা রাহগির আলমাহি সাদ এরশাদের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলেও তিনি কোনও জবাব দেননি। তাকে মেসেজ বা বিভিন্ন মাধ্যমে যোগাযোগ করা হলেও সাড়া আসেনি।

পারিবারিক একটি সূত্র বলছে, কখনও সাদ এরশাদ দেশে যোগাযোগ করলেও খুব একটা তথ্য জানাতে উৎসাহ দেখাননি। যে কারণে কোনোভাবেই তাকে বিরক্ত করা হচ্ছে না।

তবে, জাপার প্রভাবশালী একাধিক নেতা জানান, সাদ এরশাদ তার মায়ের শারীরিক অগ্রগতি বা অবনতির বিষয়ে সিনিয়র নেতাদের সঙ্গে অনেকটাই যোগাযোগহীন। ঢাকা থেকে অনেকে ফোন করলেও তিনি সাড়া দেন না— বলেও কোনও কোনও নেতা মৃদু হতাশা দেখান।

জাতীয় পার্টির যুগ্ম মহাসচিব রেজাউল ইসলাম ভুঁইয়া বাংলা ট্রিবিউনকে জানান, গত বুধবার (২৪ নভেম্বর) পর্যন্ত প্রাপ্ত খবর বলছে, রওশন এরশাদের অক্সিজেন সাপোর্ট লাগছে। তবে বাংলাদেশের চেয়ে ব্যাংককে হালকা উন্নতি আছে।

/এপিএইচ/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
যুক্তরাষ্ট্রে গেছে ৪৫ কোটি টাকার সুরক্ষা সামগ্রী
যুক্তরাষ্ট্রে গেছে ৪৫ কোটি টাকার সুরক্ষা সামগ্রী
প্রশ্নপত্র ফাঁসের ঘটনায় মাউশি অধিদফতরের নিয়োগ পরীক্ষা বাতিল
প্রশ্নপত্র ফাঁসের ঘটনায় মাউশি অধিদফতরের নিয়োগ পরীক্ষা বাতিল
২০২২ সালের প্রথম প্রান্তিকের আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ সিটি ব্যাংকের
২০২২ সালের প্রথম প্রান্তিকের আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ সিটি ব্যাংকের
কান উৎসবে ‘মুজিব’ বায়োপিকের ট্রেলার উদ্বোধন
কান উৎসবে ‘মুজিব’ বায়োপিকের ট্রেলার উদ্বোধন
এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত