‘বিদ্যুৎ খাতকে দুর্নীতিমুক্ত করলে দাম বাড়ানো লাগতো না’

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৮:৫৩, ফেব্রুয়ারি ২৭, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৮:৫৫, ফেব্রুয়ারি ২৭, ২০২০

 




বাংলাদেশ ন্যাপবিদ্যুতের দাম বাড়ানোর ঘোষণাকে জনস্বার্থবিরোধী বলে আখ্যায়িত করেছে বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টি-বাংলাদেশ ন্যাপ। দলটির চেয়ারম্যান জেবেল রহমান গাণি ও মহাসচিব গোলাম মোস্তফা ভুঁইয়া বলেছেন, বিদ্যুৎ খাতকে দুর্নীতিমুক্ত করলে বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর প্রয়োজন হতো না। বিদ্যুৎখাতে দুর্নীতি চরমভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। অথচ সরকার সেই দুর্নীতি বন্ধ না করে, বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর মাধ্যমে দুর্নীতিবাজদের পক্ষে ও জনগণের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছে। বৃহস্পতিবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর ঘোষণা দিলে গণমাধ্যমে পাঠানো এক তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় দলটির চেয়ারম্যান ও মহাসচিব এসব কথা বলেন। প্রতিক্রিয়ায় তারা অবিলম্বে বিদ্যুতের দাম কমানোর দাবি জানান।

প্রতিক্রিয়ায় তারা আরও বলেন, ‘নিয়োগ, ক্রয়, উৎপাদন, সঞ্চালন ও সেবাখাতে চরম দুর্নীতি বিরাজ করছে। গণমাধ্যমে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে আমরা জেনেছি গত ১২ বছরে বিদ্যুৎ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান রেন্টাল, কুইক রেন্টাল কোনও প্রকার বিদ্যুৎ সরবরাহ না করেও ৫৩ হাজার কোটি টাকা পিডিপির কাছ থেকে নিয়েছে। জনগণের কাছ থেকে এভাবে অর্থ আদায় করে অনৈতিকভাবে কতিপয় ব্যক্তিকে সুবিধা দেওয়া কাম্য নয়।’

তারা আরও বলেন, ‘বর্তমানে জীবনযাত্রার ব্যয় সীমা ছাড়িয়ে যাচ্ছে। সারা বিশ্বেই আজ জীবনযাত্রার ব্যয় কমানোর দাবিতে আন্দোলন চলছে। আমাদের দেশে বাজার ব্যবস্থা লাগামহীন। এর মধ্যে বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধির মাধ্যমে সরকার আগুনের মধ্যে ঘি ঢালার ব্যবস্থা করলো।’

 

/এসটিএস/টিটি/

সম্পর্কিত

লাইভ

টপ