X
শুক্রবার, ২৫ জুন ২০২১, ১১ আষাঢ় ১৪২৮

সেকশনস

ধর্ষণ-নির্যাতনের ঘটনায় মহিলা আইনজীবী সমিতির ৫ সুপারিশ

আপডেট : ১০ মে ২০২১, ০০:০৬

সাম্প্রতিক সময়ে দেশব্যাপী নারী ও শিশু ধর্ষণ-নির্যাতনের ঘটনায় গভীর নিন্দা জানিয়ে পাঁচ দফা সুপারিশ উপস্থাপন করেছে বাংলাদেশ জাতীয় মহিলা আইনজীবী সমিতি। 

রবিবার (৯ মে) ‘সাম্প্রতিক সময়ে দেশে নারী ও শিশু নির্যাতনের প্রেক্ষাপট ও প্রতিরোধে করণীয়’ শীর্ষক অনলাইন সংবাদ সম্মেলনে সমিতির পক্ষ থেকে এসব সুপারিশ তুলে ধরা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে সমিতির পক্ষ থেকে বলা হয়, ‘অতি সম্প্রতি বাংলাদেশে নারী ও শিশু নির্যাতনের মাত্রা ভয়ানকভাবে বেড়েই চলেছে। এতে বাংলাদেশ জাতীয় মহিলা আইনজীবী সমিতি খুবই উদ্বিগ্ন।  এর মধ্যে ফেনী মডেল থানার কালিদহ ইউনিয়নে ঘটে যাওয়া শিশুর নৃশংস হত্যাকাণ্ড প্রত্যেক মানুষের বিবেককে নাড়া  দিয়েছে। এছাড়াও কিছুদিন আগে ঢাকার গুলশান এলাকায় ঘটে যাওয়া তরুণীর রহস্যজনক মৃত্যু সারা দেশে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছে। এই ঘটনায় গুলশান থানায় আত্মহত্যায় প্ররোচণার অভিযোগে মামলা করা হলেও আসামিরা এখনও ধরা ছোঁয়ার বাইরে।’

সমিতির সভাপতি অ্যাডভোকেট সালমা আলী বলেন, ‘দ্রুত ও সুষ্ঠু বিচারহীনতার সংস্কৃতির কারণে দুষ্কৃতিকারীরা নারী ও শিশু নির্যাতনের মতো অপরাধ করেও বিচারের আওতায় আসছে না। এক্ষেত্রে দ্রুত ও দৃষ্টান্তমূলক বিচার নিশ্চিত করা গেলে এই ধরনের অপরাধ হ্রাস পেতে পারে। প্রতিদিন দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে ভুক্তোভোগীরা এই ধরনের অভিযোগ নিয়ে আসছেন। আজকেও ধর্ষণের সম্মুখীন একজন নারী নিরাপদ হেফাজতের জন্য বাংলাদেশ জাতীয় মহিলা আইনজীবী সমিতির কাছে আবেদন করেছেন। বাংলাদেশ জাতীয় মহিলা আইনজীবী সমিতি তার নিরাপদ হেফাজতের জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে।’

তিনি জানান, এসব কারণে দেশে নারী ও শিশু নির্যাতনের ঘটনায় বাংলাদেশ জাতীয় মহিলা আইনজীবী সমিতির পক্ষ থেকে  কয়েক দফা সুপারিশ তুলে ধরা হয়েছে। সুপারিশ হলো-

১. স্থানীয় প্রতিনিধি ও গণমাধ্যমকর্মী সবাই মিলে নারী ও শিশু নির্যাতনের বিরুদ্ধে এই করোনা পরিস্থিতিতে একযোগে কাজ করতে হবে। 

২. স্থানীয় গণমাধ্যকর্মীদেরকে যেকোনও ঘটনা সংঘটিত হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে প্রকৃত তথ্য প্রচারের ব্যবস্থা করতে হবে এবং নিয়মিত ফলোআপ করতে হবে।

৩. স্থানীয় জনসাধারণের সক্রিয় অংশগ্রহণে শিশু বিবাহ, পারিবারিক নির্যাতনসহ নারী ও শিশু নির্যাতনের বিরুদ্ধে জনগণের মধ্যে সচেতনতা গড়ে তোলার জন্য সরকারি, বেসরকারি ও উন্নয়ন  সহযোগী সংস্থাগুলোকে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে হবে।  

৪. দ্রুত ট্রায়ালের মাধ্যমে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে তদন্ত সাপেক্ষে প্রকৃত দোষীদের চিহ্নিত ও বিচারের আওতায় আনতে হবে। 

৫. শিশু-কিশোরদের মানসিক বিকাশের ক্ষেত্রে পরিবার ও সমাজের দায়বদ্ধতার জায়গাটি সুনিশ্চিত করতে হবে। 

 

/বিআই/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

ঢাকায় চার দিনেই ১০৭ শতাংশ বেড়েছে করোনা শনাক্ত 

ঢাকায় চার দিনেই ১০৭ শতাংশ বেড়েছে করোনা শনাক্ত 

নির্যাতন থেকে বাঁচতে ভাড়াটে খুনি দিয়ে ছেলেকে হত্যা

নির্যাতন থেকে বাঁচতে ভাড়াটে খুনি দিয়ে ছেলেকে হত্যা

নতুন করে বেড়েছে ১০ পণ্যের দাম

নতুন করে বেড়েছে ১০ পণ্যের দাম

শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

প্রযুক্তি পণ্যের সংকটকালে নকল পণ্যে বাজার সয়লাব

প্রযুক্তি পণ্যের সংকটকালে নকল পণ্যে বাজার সয়লাব

রাজশাহী মেডিক্যালে একদিনে আরও ১৪ মৃত্যু

রাজশাহী মেডিক্যালে একদিনে আরও ১৪ মৃত্যু

খুলনা মেডিক্যালে ৬ মৃত্যু, ৫ জনই পজিটিভ

খুলনা মেডিক্যালে ৬ মৃত্যু, ৫ জনই পজিটিভ

চট্টগ্রামে মৃত্যু বাড়ছে

চট্টগ্রামে মৃত্যু বাড়ছে

ময়মনসিংহে লকডাউনেও চলছে গণপরিবহন, মানা হচ্ছে না স্বাস্থ্যবিধি

ময়মনসিংহে লকডাউনেও চলছে গণপরিবহন, মানা হচ্ছে না স্বাস্থ্যবিধি

হাসপাতাল থেকে যেমন এসেছেন ‌‘তেমনই’ আছেন খালেদা জিয়া

হাসপাতাল থেকে যেমন এসেছেন ‌‘তেমনই’ আছেন খালেদা জিয়া

বেসরকারি পর্যায়ে অ্যান্টিজেন পরীক্ষার অনুমোদন দিচ্ছে সরকার

বেসরকারি পর্যায়ে অ্যান্টিজেন পরীক্ষার অনুমোদন দিচ্ছে সরকার

বিদেশ থেকে আনা মোবাইল ফোন নিবন্ধন করতে হবে যেভাবে

বিদেশ থেকে আনা মোবাইল ফোন নিবন্ধন করতে হবে যেভাবে

সর্বশেষ

মাদকাসক্তদের ৮০ ভাগই কিশোর

মাদকাসক্তদের ৮০ ভাগই কিশোর

ঢাকায় চার দিনেই ১০৭ শতাংশ বেড়েছে করোনা শনাক্ত 

ঢাকায় চার দিনেই ১০৭ শতাংশ বেড়েছে করোনা শনাক্ত 

নির্যাতন থেকে বাঁচতে ভাড়াটে খুনি দিয়ে ছেলেকে হত্যা

নির্যাতন থেকে বাঁচতে ভাড়াটে খুনি দিয়ে ছেলেকে হত্যা

নতুন করে বেড়েছে ১০ পণ্যের দাম

নতুন করে বেড়েছে ১০ পণ্যের দাম

বলিউড তারকাদের ডাকনামগুলো শুনেছেন?

বলিউড তারকাদের ডাকনামগুলো শুনেছেন?

মুলতান পিএসএলের ‘সুলতান’

মুলতান পিএসএলের ‘সুলতান’

শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

মনপুরায় জাতীয় গ্রিড থেকে বিদ্যুৎ সরবরাহের দাবি

মনপুরায় জাতীয় গ্রিড থেকে বিদ্যুৎ সরবরাহের দাবি

রেস্টুরেন্টে ৩৭ ডলারের বিল, টিপস ১৬ হাজার

রেস্টুরেন্টে ৩৭ ডলারের বিল, টিপস ১৬ হাজার

ইউএনও থেকে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক

ইউএনও থেকে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক

টি-টোয়েন্টিতে শ্রীলঙ্কার দুই ব্যাটসম্যান মারতে পারলেন বাউন্ডারি!

টি-টোয়েন্টিতে শ্রীলঙ্কার দুই ব্যাটসম্যান মারতে পারলেন বাউন্ডারি!

রাজধানীতে মানুষ ঢুকছে, বেরও হচ্ছে

রাজধানীতে মানুষ ঢুকছে, বেরও হচ্ছে

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ইউজিসির সাবেক সদস্য মোহাম্মদ আলীর মৃত্যুতে শোক

ইউজিসির সাবেক সদস্য মোহাম্মদ আলীর মৃত্যুতে শোক

পোশাক শ্রমিককে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনায় ২ জনের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি

পোশাক শ্রমিককে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনায় ২ জনের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি

আইনজীবীদের টিকা দেওয়া নিয়ে রুলের শুনানি ২৭ জুন

আইনজীবীদের টিকা দেওয়া নিয়ে রুলের শুনানি ২৭ জুন

নাশকতার মামলায় বৈমানিককে জামিন দেননি হাইকোর্ট

নাশকতার মামলায় বৈমানিককে জামিন দেননি হাইকোর্ট

৪ মাস পর হাসপাতাল ছাড়লেন ৮০ বছরের রাবেয়া বেগম

৪ মাস পর হাসপাতাল ছাড়লেন ৮০ বছরের রাবেয়া বেগম

বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে বিভ্রান্তিকর তথ্য: তারেকের বিরুদ্ধে মামলার প্রতিবেদন ২৮ জুন

বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে বিভ্রান্তিকর তথ্য: তারেকের বিরুদ্ধে মামলার প্রতিবেদন ২৮ জুন

সেনাবাহিনী ও জনগণের মধ্যে কোনও দূরত্ব থাকবে না:  নতুন সেনাপ্রধান

সেনাবাহিনী ও জনগণের মধ্যে কোনও দূরত্ব থাকবে না:  নতুন সেনাপ্রধান

লিবিয়ায় মানবপাচারকারী চক্রের এক সদস্যের জামিন স্থগিত

লিবিয়ায় মানবপাচারকারী চক্রের এক সদস্যের জামিন স্থগিত

দেবরের পুরুষাঙ্গ কর্তন: গৃহবধূর বিরুদ্ধে চার্জশিট

দেবরের পুরুষাঙ্গ কর্তন: গৃহবধূর বিরুদ্ধে চার্জশিট

জেনারেল আজিজকে বিদায় জানালো সেনা সদর

জেনারেল আজিজকে বিদায় জানালো সেনা সদর

© 2021 Bangla Tribune