X
মঙ্গলবার, ১৯ অক্টোবর ২০২১, ৩ কার্তিক ১৪২৮

সেকশনস

করোনায় মৃত ২৪ জনের ১৪ জন নারী

আপডেট : ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৮:১৯

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্তদের মধ্যে নারীর মৃত্যু বেশি হয়েছে। বৃহস্পতিবার ( ২৩ সেপ্টেম্বর) স্বাস্থ্য অধিদফতর করোনা বিষয়ক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ২৪, এর মধ্যে ১৪ জন নারী। এ নিয়ে টানা দুদিন ধরে করোনায় নারী মৃত্যু বেশি। এর আগে বুধবার (২২ সেপ্টেম্বর) মারা যাওয়া ৩৬ জনের মধ্যে নারী ছিলেন ১৯ জন আর পুরুষ ১৭ জন।

গত ২০ সেপ্টেম্বর করোনাতে আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়া ২৬ জনের মধ্যে ১৫ জন ছিলেন নারী আর ১১ জন পুরুষ। তার আগের দিন (১৯ সেপ্টেম্বর) বাদ দিয়ে পরপর দুদিন ১৮ ও ১৭ সেপ্টেম্বরেও নারী মৃত্যু বেশি ছিল।

১৮ সেপ্টেম্বরে মারা যাওয়া ৩৫ জনের মধ্যে পুরুষ ছিলেন ১৬ জন আর নারী ১৯ জন। তার আগের দিনে ১৭ সেপ্টেম্বরে মারা যাওয়া ৩৮ জনের মধ্যে পুরুষ ছিলেন ১৩ জন আর নারী ২৫ জন।

এছাড়া গত ১২ আগস্টে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়া ২১৫ জনের মধ্যে পুরুষ ছিলেন ১০৭ জন আর নারী ১০৮ জন।

স্বাস্থ্য অধিদফতর জানাচ্ছে, দেশে এখন পর্যন্ত করোনায় মৃতদের মধ্যে পুরুষ ১৭ হাজার ৫৬৬ জন এবং নারী ৯ হাজার ৭৭১ জন।

করোনা মহামারি শুরুর পর থেকে দেশে পুরুষের আক্রান্তের হার এবং মৃত্যুহার বেশি ছিল। নারীর তুলনায় পুরুষ বাইরে যান বেশি, যার কারণে তারা আক্রান্ত হন বেশি। আর আক্রান্ত হলে মৃত্যুও বেশি হবে বলে জানিয়ে এসেছেন বিশেষজ্ঞরা। যার কারণে নারীদের আক্রান্ত এবং তাদের মৃত্যুহার কম ছিল। কিন্তু চলতি বছরের এপ্রিল থেকে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ শুরু হলে নারী মৃত্যু বেড়ে যায়।

নারী মৃত্যুর জন্য বিশেষজ্ঞরা ডেলটা ভ্যারিয়েন্টের দাপটের কথা বলেছেন। সেইসঙ্গে টিকা গ্রহণে নারীর পিছিয়ে থাকাতেও কারণ হিসেবে বলছেন তারা। জাতীয় টিকা পরামর্শক কমিটি নাইট্যাগ (ন্যাশনাল ইমিউনাইজেশন টেকনিক্যাল অ্যাডভাইজরি গ্রুপ) ও স্বাস্থ্য অধিদফতরের সাবেক পরিচালক অধ্যাপক ডা. বে-নজির আহমেদ মনে করেন, টিকা গ্রহণে পিছিয়ে থাকার কারণে নারী মৃত্যু বাড়ছে। হরমোনাল কারণে নারীরা এতদিন সুরক্ষা পেলেও টিকা নেওয়ার ক্ষেত্রে পুরুষের এগিয়ে থাকার কারণে নারী মৃত্যু বাড়ছে।

/জেএ/এমআর/

সম্পর্কিত

২৪ জেলায় শনাক্ত নেই

২৪ জেলায় শনাক্ত নেই

শনাক্তের হার আবারও ২ শতাংশের ওপরে

শনাক্তের হার আবারও ২ শতাংশের ওপরে

করোনার বেড নিয়ে হ-য-ব-র-ল অবস্থা

করোনার বেড নিয়ে হ-য-ব-র-ল অবস্থা

দ্বিতীয় ডোজের আওতায় এক কোটি ৯৪ লাখ মানুষ

দ্বিতীয় ডোজের আওতায় এক কোটি ৯৪ লাখ মানুষ

জাতীয় উন্নয়ন প্রশাসন অ্যাকাডেমি এখন জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অধীনে

আপডেট : ১৯ অক্টোবর ২০২১, ১৮:৪৯

জাতীয় উন্নয়ন প্রশাসন অ্যাকাডেমি (নাডা) কে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অধস্তন দফতর হিসেবে অন্তর্ভুক্ত করেছে সরকার। 

মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) এ সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন জারি করেছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সওব্য-২ শাখা।

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের উপসচিব পুর্শিয়া আক্তারের সই করা আদেশে বলা হয়েছে, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের গত ৪ আগস্টের প্রজ্ঞাপন অনুযায়ী, ‘‘পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের আওতায় প্রকল্পের মাধ্যমে বাস্তবায়নাধীন ‘জাতীয় উন্নয়ন প্রশাসন অ্যাকাডেমি’র প্রশাসনিক ও আর্থিক নিয়ন্ত্রণ জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অধীন ন্যস্ত হওয়ায় যথাযথ কর্তৃপক্ষের অনুমোদনে নাডাকে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অধস্তন দফতর হিসেবে অন্তর্ভুক্ত করা হলো।’’

 

/এসআই/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

ধর্মীয় সহিংসতায় ক্ষতিগ্রস্তদের প্রতি সমবেদনা যুক্তরাষ্ট্রের

ধর্মীয় সহিংসতায় ক্ষতিগ্রস্তদের প্রতি সমবেদনা যুক্তরাষ্ট্রের

ড্রেনে পড়ে দু’জনের মৃত্যু, কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে আইনি নোটিশ

ড্রেনে পড়ে দু’জনের মৃত্যু, কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে আইনি নোটিশ

বিবিআইএন মোটর ভেহিকেল চুক্তি বাস্তবায়নে গুরুত্বারোপ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

বিবিআইএন মোটর ভেহিকেল চুক্তি বাস্তবায়নে গুরুত্বারোপ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

ধর্মীয় সহিংসতায় ক্ষতিগ্রস্তদের প্রতি সমবেদনা যুক্তরাষ্ট্রের

আপডেট : ১৯ অক্টোবর ২০২১, ১৮:১৫

সম্প্রতি দেশে ধর্মীয় সহিংসতার শিকার হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছে ঢাকায় যুক্তরাষ্ট্র দূতাবাস।

মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) এক বার্তায় দূতাবাস থেকে জানানো হয়, ধর্ম পালনের স্বাধীনতা পবিত্র। আমাদের সবাইকে লক্ষ্য-নির্দিষ্ট সহিংসতা এবং পরিকল্পিত ঘৃণার বিরুদ্ধে অবিচল থাকতে হবে। কোনও ভয় ছাড়াই প্রত্যেকে যেন নিজ নিজ বিশ্বাসের ধর্মীয় আচার বা উৎসবে অংশ নিতে পারেন, তা নিশ্চিত করার জন্য কাজ করতে হবে।

মার্কিন দূতাবাস আরও জানায়, বৈচিত্র্য, ঐক্য এবং পারস্পরিক শ্রদ্ধা রক্ষার আহ্বান জানানো সকল বিশ্বাসের বাংলাদেশির পাশে আছে যুক্তরাষ্ট্র।

 

/এসএসজেড/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

ড্রেনে পড়ে দু’জনের মৃত্যু, কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে আইনি নোটিশ

ড্রেনে পড়ে দু’জনের মৃত্যু, কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে আইনি নোটিশ

বিবিআইএন মোটর ভেহিকেল চুক্তি বাস্তবায়নে গুরুত্বারোপ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

বিবিআইএন মোটর ভেহিকেল চুক্তি বাস্তবায়নে গুরুত্বারোপ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গুজব রটনাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গুজব রটনাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

২৪ জেলায় শনাক্ত নেই

আপডেট : ১৯ অক্টোবর ২০২১, ১৮:০৭

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাতে নতুন করে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা তার আগের ২৪ ঘণ্টার তুলনায় বেড়েছে।

মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) স্বাস্থ্য অধিদফতর জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় (সোমবার সকাল ৮টা থেকে মঙ্গলবার সকাল ৮টা পর্যন্ত) করোনাতে নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৪৬৯ জন। আর গতকাল ৩৩৯ জনের শনাক্ত হবার কথা জানিয়েছিল অধিদফতর।

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাতে ৪৬৯ জনের শনাক্ত হবার মাধ্যমে আবারও দৈনিক শনাক্ত রোগীর সংখ্যা চার শ ছাড়িয়ে গেল। এর আগে গত ১৫ অক্টোবর পাঁচ মাস পর  করোনাতে দৈনিক শনাক্ত রোগীর সংখ্যা নেমে আসে চার শ’র নিচে। এরপর দিন গত ১৬ অক্টোবর শনাক্ত নেমে আসে তিন শ’র নিচে। তার দুইদিন পর্যন্ত রোগী শনাক্ত তিন শ’র নিচে থাকার পর আজ আবার সেটা চার শ’ ছাড়িয়ে গেলো।

স্বাস্থ্য অধিদফতর জানাচ্ছে, গত ২৪ ঘণ্টায় ৬৪ জেলার মধ্যে ৩ জেলায় একাধিক রোগী শনাক্ত হয়েছেন, ৩৫ জেলায় রোগী শনাক্ত হয়েছেন এক অঙ্কের ঘরে। আর দেশের ২৪ জেলায় করোনাতে কেউ শনাক্ত হয়নি।

একাধিক রোগী শনাক্ত হওয়াদের মধ্যে ঢাকা বিভাগে ঢাকা মহানগরসহ ঢাকা জেলায় শনাক্ত হয়েছেন ৩৩১ জন, চট্টগ্রাম বিভাগের চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার জেলায় যথাক্রমে শনাক্ত হয়েছেন ১৩ ও ১৪ জন।

আর যে ২৪ জেলায় করোনাতে রোগী শনাক্ত হয়নি তার মধ্যে রয়েছে ‑ ঢাকা বিভাগের কিশোরগঞ্জ, মানিকগঞ্জ ও রাজবাড়ী; ময়মনসিংহ বিভাগের নেত্রকোনা; চট্টগ্রাম বিভাগের বান্দরবান, খাগড়াছড়ি, লক্ষ্মীপুর ও চাঁদপুর; রাজশাহী বিভাগের চাঁপাইনবাবগঞ্জ, নওগাঁ ও জয়পুরহাট; রংপুর বিভাগের লালমনিরহাট ও কুড়িগ্রাম; খুলনা বিভাগের বাগেরহাট, চুয়াডাঙ্গা, মাগুরা ও নড়াইল; বরিশাল বিভাগের বরিশাল, পটুয়াখালী, পিরোজপুর, বরগুনা ও ঝালকাঠি এবং সিলেট বিভাগের সুনামগঞ্জ ও হবিগঞ্জ জেলা।

/জেএ/এমএস/

সম্পর্কিত

শনাক্তের হার আবারও ২ শতাংশের ওপরে

শনাক্তের হার আবারও ২ শতাংশের ওপরে

করোনার বেড নিয়ে হ-য-ব-র-ল অবস্থা

করোনার বেড নিয়ে হ-য-ব-র-ল অবস্থা

সব সম্প্রদায়ের ধর্ম পালনের অধিকার নিশ্চিত করতে হবে: ইউনাইটেড ইসলামী পার্টি

আপডেট : ১৯ অক্টোবর ২০২১, ১৭:৪৩

বাংলাদেশ ইউনাইটেড ইসলামী পার্টির চেয়ারম্যান মাওলানা মো. ইসমাইল হোসাইন বলেন, এদেশে সব সম্প্রদায়ের ধর্ম পালনের অধিকার নিশ্চিত করতে হবে।

মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) রাজধানীর জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে সাম্প্রদায়িক অপশক্তির বিরুদ্ধে রুখে দাড়াও শ্লোগানে আয়োজিত এক মানববন্ধনে তিনি এক কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, মানবতার শত্রুদের প্রতিহত করতে হবে। এজন্য দেশ, অঞ্চল ও বিশ্বের অসাম্প্রদায়িক মানুষকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। মানুষ ও মানবতার দুষমনদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে। বাংলাদেশে যারা মন্দিরে কোরআন অবমাননা করেছেন, হিন্দুদের পূজামণ্ডপে আক্রমণ করেছে, মূর্তি ভেঙেছে তাদের সবাইকে শাস্তির আওতায় আনতে হবে। সব সম্প্রদায়ের ধর্ম পালনের অধিকার নিশ্চিত করতে হবে।

কুমিল্লার ঘটনাকে কেন্দ্র করে যে কোনও পক্ষের, যে কোনও প্রকার প্রতিক্রিয়া বন্ধে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে আরও কঠোর হওয়ার নির্দেশ প্রদান এবং ফেসবুকসহ অন্যান্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিএনপি-জামায়াত চক্র যে গুজব ছড়াচ্ছে তাদের প্রত্যেককে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের আওতায় এনে যথাযোগ্য শাস্তি প্রদানের দাবি জানায় সংগঠনটি।

এছাড়াও মসজিদ, মন্দির, পূজামণ্ডপ, ঈদগাহসহ সকল ধর্মীয় উপাসনালয়গুলোকে সিসিটিভি ক্যামেরার আওতায় আনা বাধ্যতামূলক করাসহ ৭ দফা সুপারিশ জানিয়েছে বাংলাদেশ ইউনাইটেড ইসলামী পার্টি।

মানববন্ধনে আরও উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের মহাসচিব মাওলানা শাহাদাত হোসাইন, যুগ্ম মহাসচিব কাজী মাওলানা শাহ মো. ওমর ফারুক, কাজী মাওলানা আব্দুল কাইয়ুম, হাফেজ কারী মাওলানা আব্দুল মান্নান, মাওলানা মো. তাহেরুল ইসলাম প্রমুখ।

/জেডএ/এমএস/

সম্পর্কিত

পুনর্বাসনের দাবিতে ফুলবাড়ীয়া রেলওয়ে কলোনি বস্তিবাসীর বিক্ষোভ

পুনর্বাসনের দাবিতে ফুলবাড়ীয়া রেলওয়ে কলোনি বস্তিবাসীর বিক্ষোভ

রাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৪৭

রাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৪৭

সোনারগাঁয়ে প্রাইভেট কারের ধাক্কায় পথচারী নিহত

সোনারগাঁয়ে প্রাইভেট কারের ধাক্কায় পথচারী নিহত

বিদেশ যেতে বিমানবন্দরে এসে না ফেরার দেশে আবু মুসা

বিদেশ যেতে বিমানবন্দরে এসে না ফেরার দেশে আবু মুসা

ড্রেনে পড়ে দু’জনের মৃত্যু, কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে আইনি নোটিশ

আপডেট : ১৯ অক্টোবর ২০২১, ১৬:৫৬

চট্টগ্রামে ড্রেনে পড়ে সবজি বিক্রেতা সালেহ আহমেদ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী সেহরীন মাহবুব সাদিয়ার মর্মান্তিক মৃত্যুর ঘটনায় তাদের পরিবারকে এক কোটি টাকা করে ক্ষতিপূরণ দিতে একটি আইনি নোটিশ পাঠানো হয়েছে। স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের সচিব, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সচিব, চট্টগ্রামের বিভাগীয় কমিশনার, চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যানসহ ১৩ জনকে এই নোটিশ পাঠানো  হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) মানবাধিকার সংগঠন চিলড্রেন চ্যারিটি বাংলাদেশ ফাউন্ডেশন (সিসিবি) এর পক্ষে ব্যারিস্টার আব্দুল হালিম ও আইনজীবী ইশরাত হাসান এই নোটিশ পাঠান।

এ বিষয়ে সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদনের উদ্বৃতি দিয়ে নোটিশে বলা হয়, গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদ থেকে জানতে পারি, সবজি ব্যবসায়ী সালেহ আহমদের পর চট্টগ্রাম নগরীতে নালায় পড়ে সেহেরীন মাহবুব সাদিয়ার মৃত্যুতেও দায় নিতে চাইছে না সিটি করপোরেশন কিংবা সিডিএ।

নোটিশে আরও বলা হয়, সরকারি দু’টি সংস্থাই একে অপরকে দোষ দিচ্ছে। চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন বলছে, দু’দিকে ফুটপাত করলেও খালের মুখটি অরক্ষিত রেখেছে সিডিএ। তাই এর দায় সিডিএ’র। চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ-সিডিএ বলছে, খালের মালিকানা চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের। তাই খালের মুখে সুরক্ষা নিশ্চিতের দায়িত্বও তাদের। নালা ও খালে পড়ে একের পর এক মৃত্যুতে ক্ষুব্ধ নগরবাসী। তারা বলছেন, দায় এড়ানোর এই প্রবণতা প্রমাণ করে যে, সেবা সংস্থার মধ্যে কোনও সমন্বয় নেই। চলমান উন্নয়ন প্রকল্পগুলো স্বাচ্ছন্দ্যের পরিবর্তে নগরবাসীর ‘মৃত্যুফাঁদে’ পরিণত হয়েছে।

‘গত ২৫ আগস্ট মুরাদপুর এলাকায় খালে পড়ে তলিয়ে যান সালেহ আহমদ। তার খোঁজ আর মেলেনি। তার আগে গত ৩০ জুন ষোলশহর চশমা হিল এলাকাতেও এমন দুর্ঘটনায় মারা যান দু’জন। আবার আগ্রাবাদে নবী টাওয়ারের কাছাকাছি নাছিরছড়া খালে পড়ে তলিয়ে যান বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থী সাদিয়া। পাঁচ ঘণ্টার চেষ্টায় কয়েক টন আবর্জনার স্তূপ সরিয়ে ১৯ বছর বয়সী সাদিয়ার লাশ উদ্ধার হয়।’

তাই নোটিশে সালেহ আহমেদ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী সেহরীন মাহবুব সাদিয়া ড্রেনে পড়ে মর্মান্তিক মৃত্যের ঘটনায় চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন ও চট্টগ্রাম  উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ কী ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে, তা জানাতে বলা হয়েছে। এছাড়া এই ধরনের দুর্ঘটনা রোধে নোটিশগ্রহীতারা কী ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে, তার রিপোর্ট প্রকাশ করতে বলা হয়েছে। পাশাপাশি দু’জনের মৃত্যুর ঘটনায় ক্ষতিপূরণও চাওয়া হয়েছে।

 

/বিআই/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

ধর্মীয় সহিংসতায় ক্ষতিগ্রস্তদের প্রতি সমবেদনা যুক্তরাষ্ট্রের

ধর্মীয় সহিংসতায় ক্ষতিগ্রস্তদের প্রতি সমবেদনা যুক্তরাষ্ট্রের

বিবিআইএন মোটর ভেহিকেল চুক্তি বাস্তবায়নে গুরুত্বারোপ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

বিবিআইএন মোটর ভেহিকেল চুক্তি বাস্তবায়নে গুরুত্বারোপ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গুজব রটনাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গুজব রটনাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

২৪ জেলায় শনাক্ত নেই

২৪ জেলায় শনাক্ত নেই

শনাক্তের হার আবারও ২ শতাংশের ওপরে

শনাক্তের হার আবারও ২ শতাংশের ওপরে

করোনার বেড নিয়ে হ-য-ব-র-ল অবস্থা

করোনার বেড নিয়ে হ-য-ব-র-ল অবস্থা

দ্বিতীয় ডোজের আওতায় এক কোটি ৯৪ লাখ মানুষ

দ্বিতীয় ডোজের আওতায় এক কোটি ৯৪ লাখ মানুষ

চলতি মাসে ডেঙ্গুতে মৃত্যু ১৪ জনের

চলতি মাসে ডেঙ্গুতে মৃত্যু ১৪ জনের

গত সপ্তাহে করোনাতে মারা যাওয়াদের ৮২ শতাংশই টিকা নেননি

গত সপ্তাহে করোনাতে মারা যাওয়াদের ৮২ শতাংশই টিকা নেননি

গত সপ্তাহে করোনাতে বেশি মারা গেছেন উচ্চ রক্তচাপে আক্রান্তরা

গত সপ্তাহে করোনাতে বেশি মারা গেছেন উচ্চ রক্তচাপে আক্রান্তরা

৩০ জেলায় শনাক্ত নেই

৩০ জেলায় শনাক্ত নেই

আজও শনাক্তের হার ২ শতাংশের নিচে

আজও শনাক্তের হার ২ শতাংশের নিচে

সব ভ্যারিয়েন্টের বিরুদ্ধে শতভাগ কার্যকর ‘বঙ্গভ্যাক্স’, দাবি গ্লোবের

সব ভ্যারিয়েন্টের বিরুদ্ধে শতভাগ কার্যকর ‘বঙ্গভ্যাক্স’, দাবি গ্লোবের

সর্বশেষ

জাতীয় উন্নয়ন প্রশাসন অ্যাকাডেমি এখন জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অধীনে

জাতীয় উন্নয়ন প্রশাসন অ্যাকাডেমি এখন জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অধীনে

কুয়েত নয়, উজবেকিস্তানে খেলবে বাংলাদেশ

কুয়েত নয়, উজবেকিস্তানে খেলবে বাংলাদেশ

৫৮ জেলায় করোনায় মৃত্যু নেই

৫৮ জেলায় করোনায় মৃত্যু নেই

কোটি টাকা আত্মসাৎ, হাসপাতালের সাবেক হিসাবরক্ষকের বিরুদ্ধে পরোয়ানা

কোটি টাকা আত্মসাৎ, হাসপাতালের সাবেক হিসাবরক্ষকের বিরুদ্ধে পরোয়ানা

মুক্তি পেলেন মিয়ানমারের শত শত রাজনৈতিক বন্দি

মুক্তি পেলেন মিয়ানমারের শত শত রাজনৈতিক বন্দি

© 2021 Bangla Tribune