সেকশনস

বাংলাদেশকে জাতিসংঘে অন্তর্ভুক্তির পক্ষে রায়, চীনের ভেটো অব্যাহত

আপডেট : ৩০ নভেম্বর ২০২০, ১৭:০১

দৈনিক ইত্তেফাক, ১ ডিসেম্বর ১৯৭২ (বিভিন্ন সংবাদপত্রে প্রকাশিত তথ্যের ভিত্তিতে ১৯৭২ সালে বঙ্গবন্ধুর সরকারি কর্মকাণ্ড ও তার শাসনামল নিয়ে ধারাবাহিক প্রতিবেদন প্রকাশ করছে বাংলা ট্রিবিউন। আজ পড়ুন ওই বছরের ৩০ নভেম্বরের ঘটনা।)

জাতিসংঘে বাংলাদেশকে সদস্য পদ দেওয়ার আহ্বান জানিয়ে ১৯৭২ সালের ৩০ নভেম্বর সাধারণ পরিষদে সর্বসম্মত এক প্রস্তাব গৃহীত হয়। কিন্তু চীন এই মর্মে নোটিশ প্রদান করে যে, ডিসেম্বর যুদ্ধের সব পাকিস্তানি যুদ্ধবন্দিকে পাকিস্তানে ফেরত না পাঠানো পর্যন্ত বাংলাদেশের আবেদনে ভেটো প্রদান অব্যাহত রাখবে চীন।

১৩২ জাতিবিশিষ্ট সাধারণ পরিষদে যুগপৎ দুটি প্রস্তাব গৃহীত হয় এই দিনে। প্রথম প্রস্তাবে বাংলাদেশকে জাতিসংঘের সদস্যপদ দানের সুপারিশ করা হয়। দ্বিতীয় প্রস্তাবে যুদ্ধবন্দিদের মুক্তি দেওয়ার আহ্বান করা হয়। সাধারণ পরিষদের সভাপতি তার ভাষণে এ প্রস্তাবের ওপর নির্ভরশীলতার বিষয় উল্লেখ করেন। পাকিস্তানের সংখ্যালঘু ও পর্যটন দফতরের মন্ত্রী রাজা ত্রিদিব রায়ের দেওয়া আবশ্যকীয় পূর্বশর্ত হচ্ছে—‘অমীমাংসিত সমস্যাগুলোর মীমাংসা এবং যুদ্ধাপরাধীদের মুক্তিদান।’ বাংলাদেশের পর্যবেক্ষক দলের নেতা এস এ করিম এক বিবৃতিতে বলেন, ‘জাতিসংঘের কোনও দেশকে সদস্যপদ দানের ক্ষেত্রে জাতিসংঘ সনদের উল্লিখিত শর্তাবলি ছাড়া অন্য কোনও শর্ত আরোপ করা যায় না।’ তিনি উল্লেখ করেন যে, সাধারণ পরিষদে সর্বসম্মতভাবে গৃহীত প্রস্তাবে বাংলাদেশের সদস্যপদ দানের জরুরি প্রয়োজনীয়তার ওপর গুরুত্ব আরোপ করা হয়েছে। সদস্য পদের আবেদন বিবেচনার জন্য বাংলাদেশ পুনরায় কখন নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠক অনুষ্ঠানের আবেদন জানাবে, তা এ পর্যায়ে বলতে পারেন না বলে জানান।

দ্য বাংলাদেশ অবজারভার, ১ ডিসেম্বর ১৯৭২

প্রসঙ্গত, নিরাপত্তা পরিষদের অনুমোদন ব্যতিরেকে কোনও দেশ জাতিসংঘের সদস্য হতে পারে না। জাতিসংঘে বিনাভোটে দুই প্রস্তাব গ্রহণ পাকিস্তান ও বাংলাদেশের মধ্যে সমন্বয় ও আপসরফার পরিণতি, বাংলাদেশকে অবিলম্বে সদস্যপদের সমর্থনে যুগোস্লাভিয়া বিষয়টি উত্থাপন করে এবং সেটাতে পাকিস্তানসহ সব দেশেই অনুমোদন করে। অপর প্রস্তাবটি ২২ দেশের সমর্থনে আর্জেন্টিনা উত্থাপন করে এবং এই প্রস্তাবও সর্বসম্মতিক্রমে গৃহীত হয়।

বিশ্বের যেসব দেশ অবিলম্বে বাংলাদেশকে জাতিসংঘের সদস্য করার প্রশ্নে সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে সম্মতি দান করেছে, বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আব্দুস সামাদ এসব দেশকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান। জাতিসংঘভুক্তির পর অন্য প্রস্তাবটি কার্যকর করা যেতে পারে বলে মনে করেন আব্দুস সামাদ। বাংলাদেশের জাতিসংঘভুক্তি সম্পর্কিত যুগোস্লাভিয়ার প্রস্তাব এবং পাকিস্তানি যুদ্ধাপরাধীদের মুক্তি দেওয়ার আর্জেন্টিনার প্রস্তাবকে পরস্পর নির্ভরশীল বলে মনে করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী আব্দুস সামাদ। তিনি বলেন, ‘প্রথম প্রস্তাব গৃহীত হওয়ার অর্থ জাতিসংঘে বাংলাদেশের অন্তর্ভুক্তি। আর সেটি হলে আর্জেন্টিনার উত্থাপিত দ্বিতীয় প্রস্তাবটি বাস্তবায়ন সহজতর হবে।

দৈনিক বাংলা, ১ ডিসেম্বর ১৯৭২ পিরোজপুরে বঙ্গবন্ধু

উপকূলীয় বাঁধ প্রকল্প ও বন সংরক্ষণ ব্যবস্থা পরিদর্শন করার জন্য প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান তিন দিনের সফরে পিরোজপুরে পৌঁছান। বন্যা নিয়ন্ত্রণ ও প্রাণিসম্পদ দফতরের  মন্ত্রী মোশতাক আহমদ, মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী সোহরাব হোসেন ও রাজনৈতিক সচিব তোফায়েল আহমেদ তার সঙ্গে ছিলেন। উপকূল পরিদর্শনে যাত্রার পথে বঙ্গবন্ধু এক ঘণ্টাব্যাপী বরিশালে অবস্থান করেন। এই সময় আওয়ামী লীগের স্থানীয় নেতারা  তার সঙ্গে সাক্ষাৎ এবং স্থানীয় সমস্যাগুলো নিয়ে আলোচনা করেন। যাত্রার প্রাক্কালে বঙ্গবন্ধু কেবিনের বাইরে এসে তার জন্য অপেক্ষমাণ জনতার উদ্দেশে হাত নাড়েন।

জাতীয়করণ কর্মসূচি বানচালের চক্রান্ত

জাতীয় শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক আবদুল মান্নান মনে করেন, সম্প্রতি খুলনা, নারায়ণগঞ্জ ও উত্তরবঙ্গের কতিপয় পাটের গুদামে সংঘটিত ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের পেছনে শিল্প জাতীয়করণ কর্মসূচি বানচালের ষড়যন্ত্র রয়েছে। শ্রমিক নেতা ষড়যন্ত্রকারীদের প্রতিহত করার জন্য সরকার ও দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানান। বিবৃতিতে পাটের সঙ্গে সংশ্লিষ্টদের কয়েক ভাগে ভাগ করে বলা হয়, পুরনো পুঁজিবাদী ব্যবসায়ী, সুবিধাবাদী ব্যবসায়ী, মধ্যস্বত্বভোগী, বিদেশে রফতানিকারক, আন্তর্জাতিক চক্রান্তকারী ও আন্তর্জাতিক রাজনৈতিক চক্রান্তকারীদের বিরুদ্ধে সরকারের পক্ষ থেকে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ জরুরি।

/এপিএইচ/এমএমজে/এমওএফ/

সম্পর্কিত

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখতে সরকারকে আইনি নোটিশ

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখতে সরকারকে আইনি নোটিশ

৬০ স্বাস্থ্যকর্মীকে টিকা দেওয়া হবে মুগদা হাসপাতালে

৬০ স্বাস্থ্যকর্মীকে টিকা দেওয়া হবে মুগদা হাসপাতালে

ভ্যাকসিন এলেও মাস্ক বাধ্যতামূলক

ভ্যাকসিন এলেও মাস্ক বাধ্যতামূলক

ধর্ষণ মামলা: নুরসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে তদন্ত প্রতিবেদন ১৮ ফেব্রুয়ারি

ধর্ষণ মামলা: নুরসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে তদন্ত প্রতিবেদন ১৮ ফেব্রুয়ারি

টিকা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানালেন ঢামেক চিকিৎসক

টিকা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানালেন ঢামেক চিকিৎসক

বঙ্গবন্ধু মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রথম টিকা নিলেন ভিসি

বঙ্গবন্ধু মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রথম টিকা নিলেন ভিসি

প্রাথমিকের তদন্ত দায়সারা, কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণের উদ্যোগ

প্রাথমিকের তদন্ত দায়সারা, কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণের উদ্যোগ

কূটনৈতিক সম্পর্ক প্রতিষ্ঠার প্রথমবার্ষিকী, দুটি দেশকে বঙ্গবন্ধুর বার্তা

কূটনৈতিক সম্পর্ক প্রতিষ্ঠার প্রথমবার্ষিকী, দুটি দেশকে বঙ্গবন্ধুর বার্তা

শতাধিক ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সামনে দেয়াল!

শতাধিক ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সামনে দেয়াল!

সর্বশেষ

৪৮ বছর পর যে লজ্জা পেলো ম্যানইউ

৪৮ বছর পর যে লজ্জা পেলো ম্যানইউ

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখতে সরকারকে আইনি নোটিশ

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখতে সরকারকে আইনি নোটিশ

৬০ স্বাস্থ্যকর্মীকে টিকা দেওয়া হবে মুগদা হাসপাতালে

৬০ স্বাস্থ্যকর্মীকে টিকা দেওয়া হবে মুগদা হাসপাতালে

ফিরেই বার্সাকে জেতালেন মেসি

ফিরেই বার্সাকে জেতালেন মেসি

ভ্যাকসিন এলেও মাস্ক বাধ্যতামূলক

ভ্যাকসিন এলেও মাস্ক বাধ্যতামূলক

ধর্ষণ মামলা: নুরসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে তদন্ত প্রতিবেদন ১৮ ফেব্রুয়ারি

ধর্ষণ মামলা: নুরসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে তদন্ত প্রতিবেদন ১৮ ফেব্রুয়ারি

টিকা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানালেন ঢামেক চিকিৎসক

টিকা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানালেন ঢামেক চিকিৎসক

মেয়রপ্রার্থীর কর্মীকে হত্যা চেষ্টা, ছাত্রলীগের ২ নেতার বিরুদ্ধে মামলা

মেয়রপ্রার্থীর কর্মীকে হত্যা চেষ্টা, ছাত্রলীগের ২ নেতার বিরুদ্ধে মামলা

যে কারণে ব্রোকলিতে আগ্রহ বাড়ছে চাষিদের

যে কারণে ব্রোকলিতে আগ্রহ বাড়ছে চাষিদের

টিভিতে আজ

টিভিতে আজ

সৌদি-আমিরাতের কাছে সমরাস্ত্র বিক্রি স্থগিতের সিদ্ধান্ত যুক্তরাষ্ট্রের

সৌদি-আমিরাতের কাছে সমরাস্ত্র বিক্রি স্থগিতের সিদ্ধান্ত যুক্তরাষ্ট্রের

দৌলতপুরে পাট গোডাউনে আগুন, এখনও চলছে ডাম্পিং

দৌলতপুরে পাট গোডাউনে আগুন, এখনও চলছে ডাম্পিং

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

৬০ স্বাস্থ্যকর্মীকে টিকা দেওয়া হবে মুগদা হাসপাতালে

৬০ স্বাস্থ্যকর্মীকে টিকা দেওয়া হবে মুগদা হাসপাতালে

টিকা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানালেন ঢামেক চিকিৎসক

টিকা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানালেন ঢামেক চিকিৎসক

বঙ্গবন্ধু মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রথম টিকা নিলেন ভিসি

বঙ্গবন্ধু মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রথম টিকা নিলেন ভিসি

কূটনৈতিক সম্পর্ক প্রতিষ্ঠার প্রথমবার্ষিকী, দুটি দেশকে বঙ্গবন্ধুর বার্তা

কূটনৈতিক সম্পর্ক প্রতিষ্ঠার প্রথমবার্ষিকী, দুটি দেশকে বঙ্গবন্ধুর বার্তা

শতাধিক ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সামনে দেয়াল!

শতাধিক ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের সামনে দেয়াল!

টিকা নিতে প্রস্তুত তারা

টিকা নিতে প্রস্তুত তারা

ভ্যাকসিন নেওয়ার কথা পরিবারকেও জানাইনি: নাসিমা সুলতানা

ভ্যাকসিন নেওয়ার কথা পরিবারকেও জানাইনি: নাসিমা সুলতানা


[email protected]
© 2021 Bangla Tribune
Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.