X
মঙ্গলবার, ০৫ জুলাই ২০২২
২১ আষাঢ় ১৪২৯

ডোবা থেকে লাশ উদ্ধার: মামলায় আসামি করা হয়নি সেই এসআইকে

আপডেট : ০৬ মে ২০২২, ১১:১৭

নারায়ণগঞ্জের বন্দরের বাগবাড়ি এলাকার ডোবা থেকে নিলয় আহমেদ বাবু নামে এক তরুণের লাশ উদ্ধারের ঘটনায় সিটি করপোরেশনের ২৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আবুল কাউসার আশাসহ ১০ জনকে আসামি করে মামলা করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৫ মে) নিহতের মা লিলি বেগম বাদী হয়ে মামলাটি করেন।

তবে মামলার এজাহারে অভিযুক্ত ও প্রত্যাহার হওয়া বন্দর পুলিশ ফাঁড়ির এসআই রওশন ফেরদৌসকে আসামি করা হয়নি। নিহতের স্বজনরা বলছেন, যাচাই-বাছাই করে জানা গেছে ,ঘটনার দিন ওই পুলিশ কর্মকর্তা ছিলেন না।

আসামিরা হলেন- নবীগঞ্জ লতিফ হাজীর মোড়ের অ্যাডভোকেট আবুল কালামের ছেলে ২৩নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর আবুল কাউসার আশা (৩৮), আমিনুল (৫৫), মনির মিয়ার স্ত্রী হাসিনা বেগম (৪৫), নাসিম উদ্দিন মিয়ার ছেলে শিপলু (৩২), মোজাম্মেল মিয়ার ছেলে আফজাল (২২), আব্দুল মালেক মিয়ার ছেলে জিপু (২৬), মৃত মোবারক আলীর ছেলে শহিদুল ইসলাম শইক্কা (৫০), মৃত নূর ইসলাম কুট্টির ছেলে সিরাজুল (৪৫), হাসান (২৬) ও সিরাজ মিয়ার ছেলে সোবহান (৩৫)। তারা সবাই নবীগঞ্জ বাগবাড়ি এলাকায় বসবাস করেন।

মামলার এজাহারে উল্লেখ করা হয়েছে, নিলয় আহমেদ বাবুর বিরুদ্ধে হাসিনা বেগম একটি লিখিত অভিযোগ করেন। অভিযোগ তদন্তের জন্য বন্দর পুলিশ এসআই রওশন ফেরদৌস ঘটনাস্থলে যান। তদন্তের পর স্থানীয় কাউন্সিলর আবুল কাউসার আশা বিষয়টি মীমাংসার দায়িত্ব নেন। এরপর তিনি বাবুকে তার অফিসে আসার জন্য ডাকেন। কিন্তু বাবু কাউন্সিলরের অফিসে যাননি। এ কারণে আমিনুল, হাসিনা বেগম ও শিপলুর মাধ্যমে তাকে ধরে কাউন্সিলরের অফিসে আনার নির্দেশ দেওয়া হয়। কাউন্সিলরের নির্দেশে বাকি আসামিরা ৩০ এপ্রিল রাত আনুমানিক সাড়ে ১০টায় নবীগঞ্জ সাকিন বাগবাড়ি টিনের মসজিদ সংলগ্ন ভুক্তভোগীর বসতবাড়িতে যান। এ সময় নিহত বাবু তাদের দেখে পালানোর চেষ্টা করলে বাসার পেছনের ডোবায় পড়ে যান। তখন সবাই মিলে তাকে উদ্দেশ্য করে ইট-পাটকেল ছোড়ে। এতে সে মাথায় আঘাত পেয়ে সেখানে পড়ে থাকেন। এ সময় আসামিরা প্রচারণা চালান, বাবু ডোবা থেকে উঠে চলে গেছে। পরে গত ৪ মে সকাল আনুমানিক ৯টায় ডোবা পরিষ্কারের জন্য লোকজন নেমে বাবুর লাশ দেখতে পান।

ঘটনার দিন পুলিশ কর্মকর্তারা লাশ উদ্ধার করতে গেলে নিহতের স্বজনসহ এলাকাবাসীর তোপের মুখে পড়েন। ‘এসআই রওশন ফেরদৌসের ফাঁসি চাই’ বলে স্লোগান দেন তারা। এ সময় বন্দর থানার ওসি দীপক চন্দ্র সাহা তদন্ত করে সুষ্ঠু বিচারের আশ্বাস দিলে শান্ত হন।

ওই সময় নিহতের ভাই ইমন, মা লিলি বেগম, বোনসহ প্রায় সব স্বজন এই ঘটনার জন্য ওই পুলিশ কর্মকর্তাকে দায়ী করে বলেন, ‘ঘটনার রাতে এসআই ফেরদৌস বাবুকে ধাওয়া দিয়ে ডোবায় ফেলে দেয়। এ সময় তাকে ইট-পাটকেল ছুড়ে মারে। পরে আবার বাড়িতে গিয়েও শাসিয়ে আসে।’ এ কারণে তার বিচারের দাবি করেন।

তবে মামলার এজাহারে ওই পুলিশ কর্মকর্তাকে আসামি করা হয়নি। এ বিষয়ে নিহতের মামী পপি বেগম বলেন, ‘নিহতের মা লিলি বেগম এখন কথা বলার মতো পরিস্থিতিতে নেই। তাই তার মোবাইল ফোন আমাকে দিয়েছে, কথা বলার জন্য।’

ওই এসআইকে আসামি না করার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘অভিযুক্ত ওই পুলিশ কর্মকর্তা বাবুর খোঁজে আমাদের বাড়িতে বারবার এসেছিল। এ কারণে আমরা ধারণা করেছি, বাবুর মৃত্যুর জন্য তিনি দায়ী। কিন্তু পরে আমরা যাচাই-বাছাই করে দেখেছি, ঘটনার দিন ওই পুলিশ কর্মকর্তা ছিলেন না। মামলার অন্য আসামিরা এসেছিল।’

বন্দর থানার ওসি দীপক চন্দ্র সাহা জানান, এ ঘটনায় মামলা হয়েছে। নারীসহ দুই জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এ ছাড়াও ঘটনার দিন তাৎক্ষণিক অভিযুক্ত এসআইকে প্রত্যাহার করা হয়। তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 

/এফআর/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
হাটের কাছের ব্যাংকের লেনদেন রাত ৮টা পর্যন্ত
হাটের কাছের ব্যাংকের লেনদেন রাত ৮টা পর্যন্ত
জায়গা দখল করতেই আগেভাগে হাটে ব্যবসায়ীরা
জায়গা দখল করতেই আগেভাগে হাটে ব্যবসায়ীরা
ট্যুরিস্ট পু‌লি‌শের ছু‌টি বা‌তিল
ট্যুরিস্ট পু‌লি‌শের ছু‌টি বা‌তিল
রাশিয়ার শত শত পণ্যবাহী গাড়ি জব্দ করেছে ফিনল্যান্ড
রাশিয়ার শত শত পণ্যবাহী গাড়ি জব্দ করেছে ফিনল্যান্ড
এ বিভাগের সর্বশেষ
ট্যুরিস্ট পু‌লি‌শের ছু‌টি বা‌তিল
ট্যুরিস্ট পু‌লি‌শের ছু‌টি বা‌তিল
দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া পারাপার হবে স্বস্তির, চলবে ২১ ফেরি 
দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া পারাপার হবে স্বস্তির, চলবে ২১ ফেরি 
ঘরে ঢুকে মা-ছেলেকে হত্যার ২ দিন পর মামলা
ঘরে ঢুকে মা-ছেলেকে হত্যার ২ দিন পর মামলা
স্ত্রীকে পুড়িয়ে হত্যায় স্বামীর যাবজ্জীবন
স্ত্রীকে পুড়িয়ে হত্যায় স্বামীর যাবজ্জীবন
পাননি ছুটি, বাধ্য হয়ে কাজের সময় অসুস্থ পোশাককর্মীর মৃত্যু
পাননি ছুটি, বাধ্য হয়ে কাজের সময় অসুস্থ পোশাককর্মীর মৃত্যু